মিরপুরে জিততেই হবে বাংলাদেশকে

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ২২:৫৪, নভেম্বর ১০, ২০১৮ | সর্বশেষ আপডেট : ০৯:৩৬, নভেম্বর ১১, ২০১৮

অনুশীলনে জয়ের আকাঙ্ক্ষা ফুটে উঠেছে ক্রিকেটারদের চোখে-মুখে‘আঠারো বছর বয়স কী দুঃসহ

স্পর্ধায় নেয় মাথা তোলবার ঝুঁকি,

আঠারো বছর বয়সেই অহরহ

বিরাট দুঃসাহসেরা দেয় যে উঁকি।’

সুকান্ত ভট্টাচার্যর বিখ্যাত ‘আঠারো বছর বয়স’ কবিতার প্রথম চারটি লাইন। বাংলাদেশের ক্রিকেটেও এখন আঠারোর আবাহন। ঠিক ১৮ বছর আগে, ২০০০ সালের ১০ নভেম্বর টেস্ট ক্রিকেটের বন্ধুর পথে যাত্রা শুরু বাংলাদেশের। দেড় যুগে প্রত্যাশিত সাফল্য পায়নি টাইগাররা। গত সপ্তাহেই ‘দুর্বল’ জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে আত্মসমর্পণ করেছে অসহায়ের মতো। সেই লজ্জা মুছে ফেলতে মিরপুরে দ্বিতীয় ও শেষ টেস্টে জিততেই হবে। আধ ঘণ্টা এগিয়ে রবিবার খেলা শুরু হবে সকাল সাড়ে ৯টায়। মিরপুর শেরে বাংলা স্টেডিয়াম থেকে ম্যাচটি সরাসরি সম্প্রচার করবে গাজী টিভি।

ম্যাচের আগের দিন সংবাদ সম্মেলনে সুকান্তর ‘আঠারো বছর বয়স’ কবিতার কথা মনে করিয়ে দিতেই হেসে ফেললেন মাহমুদউল্লাহ। ১৮ বছর মানে একজন মানুষের প্রাপ্তবয়স্ক হওয়ার ছাড়পত্র। বাংলাদেশের ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক অবশ্য টেস্ট ক্রিকেটে দলকে ‘প্রাপ্তবয়স্ক’ মানতে নারাজ, ‘ফল হিসেব করলে আমরা এখনও তেমন প্রাপ্তবয়স্ক হইনি। টেস্ট ক্রিকেটে নিয়মিত খেলতে হবে আমাদের। তাহলেই  সুফল পাওয়া যাবে। ক্রিকেটের অন্য ফরম্যাটে ভালো খেললেও টেস্টে তা পারছি না। আমাদের তাই ডিসিপ্লিনড হতে হবে। তাহলেই আমরা টেস্ট ক্রিকেটে ভালো করতে পারবো।’

সিলেটের অভিষেক টেস্ট জয়ের প্রত্যয় নিয়ে খেলতে নেমেছিল স্বাগতিকরা। ওয়ানডে সিরিজে হোয়াইটওয়াশ করার পর ‘দুর্বল’ জিম্বাবুয়েকে নিশ্চয়ই বাংলাদেশ উড়িয়ে দেবে-এমন ধারণাই করেছিল সবাই। কিন্তু হয়েছে ঠিক উল্টো! ব্যাটসম্যানদের অমার্জনীয় ব্যর্থতায় বাংলাদেশ হেরেছে ১৫১ রানে। মাহমুদউল্লাহ অবশ্য গত সপ্তাহের দুঃস্বপ্ন পেছনে ফেলে ঘুরে দাঁড়াতে প্রত্যয়ী, ‘সিলেটে পরাজয়ের কথা কেউ চিন্তাও করেনি। আমরা ইতিবাচক থাকার চেষ্টা করছি। দ্বিতীয় টেস্টে সব বিভাগে ভালো খেলে জিততে চাই।’

তবে ব্যাটিং নিয়ে দুশ্চিন্তা কাটছে না। সিলেট সহ শেষ চার টেস্টে ৮ ইনিংসে ২০০ রানের নিচে অলআউট হয়েছে বাংলাদেশ। প্রথম টেস্টে বিস্ময়কর ব্যর্থতায় দলে একাধিক পরিবর্তন আসা প্রায় নিশ্চিত। সিলেটে দুই ইনিংসেই ব্যর্থ নাজমুল হোসেন শান্ত বাদ পড়তে পারেন। তার জায়গা নিতে পারেন টেস্ট অভিষেকের অপেক্ষায় থাকা মোহাম্মদ মিঠুন। পেস আক্রমণ শক্তিশালী করতে স্পিনার নাজমুল ইসলাম অপুকে বসিয়ে খেলানো হতে পারে মোস্তাফিজুর রহমানকে। সিলেটে একমাত্র স্পেশালিস্ট পেসার হিসেবে খেলা আবু জায়েদ রাহীর জায়গাও নিশ্চিত নয় একাদশে। রাহী বাদ পড়লে সুযোগ মিলতে পারে এখনও আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে খেলার সুযোগ না পাওয়া পেসার খালেদ আহমেদের।

মাহমুদউল্লাহ যদিও ম্যাচের আগের দিন একাদশ নিয়ে পরিষ্কার করে কিছু জানাতে পারলেন না, ‘আমরা কয়েকটি পরিবর্তন নিয়ে নামতে পারি। কালই (রবিবার) দল দেখতে পাবেন আপনারা। তবে যে-ই মাঠে নামুক, প্রত্যেকে নিজের ১২০ ভাগ দিয়ে খেলবে।’

জিম্বাবুয়ের অধিনায়ক হ্যামিল্টন মাসাকাদজার চোখে সিরিজ জয়ের স্বপ্ন। ড্র নয়, ঢাকা টেস্ট জিতেই ট্রফি নিয়ে দেশে ফিরতে চান তিনি, ‘সিলেট টেস্ট জিতে আমরা দারুণ আত্মবিশ্বাসী। সিরিজটা ২-০ ব্যবধানে জিততে পারলে বিশাল অর্জন হবে  আমাদের জন্য। সাম্প্রতিক সময়ে আমরা সিরিজ তো দূরের কথা, তেমন ম্যাচই জিততে পারিনি। বাংলাদেশ সফরে টেস্ট সিরিজ জয় দারুণ অনুপ্রাণিত করবে আমাদের দলকে।’

/আরআই/এএআর/

লাইভ

টপ