‘ডিউ ফ্যাক্টর’ যখন দুর্ভাবনা

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ২০:৪৫, ডিসেম্বর ০৮, ২০১৮ | সর্বশেষ আপডেট : ২০:৫২, ডিসেম্বর ০৮, ২০১৮

শিশিরের জন্যই ফ্লাডলাইটের নিচে ক্যাচিং প্র্যাকটিসে মনোযোগী সাকিব-মিরাজবাতাসে শীতের আমেজ, সকালগুলো কুয়াশাঢাকা, শিশিরভেজা। ঋতু পরিবর্তন প্রকৃতিপ্রেমীদের রোমাঞ্চিত করে তুললেও ক্রিকেটাররা দুশ্চিন্তায়! যেহেতু সন্ধ্যা থেকে শিশির পড়ে, তাই বাংলাদেশ-ওয়েস্ট ইন্ডিজ ওয়ানডে সিরিজে রণপরিকল্পনার বড় অংশ জুড়ে ‘ডিউ ফ্যাক্টর’। মাশরাফি মুর্তজার মনেও শিশিরসিক্ত মাঠের দুর্ভাবনা।

শেরে বাংলা স্টেডিয়ামের উইকেট সবসময় ‘অননুমেয়’। দিবারাত্রির ম্যাচে টস জিতে আগে ব্যাট করাই বুদ্ধিমানের কাজ। কিন্তু পরে বল করলে শিশিরের জন্য যদি সমস্যা হয়? শনিবার সংবাদ সম্মেলনে এমন প্রশ্ন উঠতে বাংলাদেশের অধিনায়ক বেশ দ্বিধান্বিত, ‘গত বছর এই সময়ে আমরা বিপিএল খেলেছিলাম। তখন মিরপুরে রাতের ম্যাচে শিশির তেমন প্রভাব ফেলেনি। তবে কোনও কোনও ম্যাচে কিছুটা সমস্যা করেছিল। এবার সন্ধ্যা থেকে বেশি শিশির পড়লে বল করা কঠিন হবে আমাদের জন্য। আবার শিশির কম পড়লে ওদের বল করতে তেমন সমস্যা হবে না। তাই টস জিতলে ব্যাটিং না বোলিং সেই সিদ্ধান্ত নেওয়া খুব কঠিন। আমি অবশ্য আগে ব্যাট করার পক্ষে।’

শিশিরে বল ভিজে গেলে গ্রিপ করতে সমস্যা হয় স্পিনারদের। ভেজা বল টার্নও করে না তেমন। মাশরাফির অবশ্য দলের স্পিনারদের ওপরে যথেষ্ট আস্থা, ‘আমাদের দুই স্পিনার (সাকিব ও মিরাজ) দারুণ বল করে। রিয়াদও (মাহমুদউল্লাহ) এশিয়া কাপ থেকে খুব ভালো বল করছে। তাই বাড়তি স্পিনার না নিলেও আমাদের সমস্যা হবে না।’

‘আগে ব্যাট করলে কত স্কোর বাংলাদেশের জন্য সুবিধাজনক?’ এমন প্রশ্নে অধিনায়কের উত্তর, ‘এই উইকেটে ২৬০ রান নিরাপদ হতে পারে। তবে শিশিরের কারণে হয়তো আরও ২০/২৫ রান বেশি করতে হবে।’

/আরআই/এএআর/

লাইভ

টপ