প্রোটিয়াদের কাছে হোয়াইটওয়াশ পাকিস্তান

Send
স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত : ১৬:২৮, জানুয়ারি ১৪, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১৬:৫২, জানুয়ারি ১৪, ২০১৯

পাকিস্তানের প্রতিরোধ গুঁড়িয়ে দেন রাবাদা ও অলিভিয়ের।চতুর্থ দিনেই জোহানেসবার্গ টেস্টে অসহায় আত্মসমর্পণ করেছে পাকিস্তান। তৃতীয় টেস্টে দক্ষিণ আফ্রিকার কাছে ১০৭ রানে হারায় তিন টেস্টের সিরিজে হোয়াইটওয়াশ হয়েছে সরফরাজ আহমেদরা।

৩৮১ রানের বিশাল লক্ষ্যে খেলতে নেমে লড়াইয়ের ইঙ্গিত দিয়েছিলো পাকিস্তান। চতুর্থ দিন খেলা শুরু করে ৩ উইকেটে করা ১৫৩ রান নিয়ে।পাকিস্তান ধবলধোলাই এড়ানোর লড়াইয়ে তাকিয়ে ছিলো আসাদ শফিক, বাবর আজম আর সরফরাজ আহমেদের দিকে। চতুর্থ দিন সকালে তাতো হলোই না, বরং পাকিস্তানের ব্যাটিং লাইন আপ প্রোটিয়াদের সামনে ছিলো থরহরি কম্প।

দিনের শুরুতে একই ওভারে বাবর আর সরফরাজকে ফিরিয়ে খেলার মোড় ঘুরিয়ে দেন অলিভিয়ের। দুই অভিজ্ঞ ব্যাটসম্যানকে ফেরালে ম্যাচ বাঁচানোর সম্ভাবনা হয়ে পড়ে আরও কঠিন। আগের দিন লড়াই করা আসাদ শফিক ৬৫ রানে ফিল্যান্ডারের বলে বিদায় নিলে আর মাথা তুলে দাঁড়াতে পারেনি পাকিস্তান। শাদাব খান এক প্রান্ত আগলে হারের ব্যবধান কমাতে পেরেছেন শুধু। কারণ বাকিরা রাবাদা ও অলিভিয়েরের তোপে বিদায় নিয়েছেন থিতু না হয়ে।

শেষ দিকে ফাহিম আশরাফের ১৫ আর হাসান আলীর ২২ রান প্রোটিয়াদের জয়ের ক্ষণটি বিলম্ব করে মাত্র। শেষ উইকেটে মোহাম্মদ আব্বাস রানের প্রান্ত বদল করতে গিয়ে ভুল বোঝাবুঝিতে রান আউট হলে প্রথম সেশনেই ২৭৩ রানে শেষ হয় পাকিস্তানের দ্বিতীয় ইনিংস। শাদাব খান ৪৭ রানে অপরাজিত ছিলেন শুধু। প্রোটিয়াদের হয়ে এই ইনিংসে তিনটি করে উইকেট নেন কাগিসো রাবাদা ও ডুয়ানে অলিভিয়ের। দুটি নেন ডেল স্টেইন ও একটি ভারনন ফিল্যান্ডার।

এই জয় দক্ষিণ আফ্রিকাকে টেস্ট র‌্যাংকিংয়ে বসিয়েছে দ্বিতীয় স্থানে। নিউজিল্যান্ড আর ইংল্যান্ডকে পেছনে ফেলেছে প্রোটিয়ারা। আর হোয়াইটওয়াশ হয়ে সাতে নেমে গেছে পাকিস্তান। সিরিজে সর্বোচ্চ ২৪ উইকেট নিয়ে অলিভিয়ের হন সিরিজসেরা আর ম্যাচসেরা দ্বিতীয় ইনিংসে সেঞ্চুরি করা কুইন্টন ডি কক।

/এফআইআর/

লাইভ

টপ