দুই দেশের ভক্তদের সম্প্রীতি

Send
রবিউল ইসলাম, টন্টন থেকে
প্রকাশিত : ১৮:৪১, জুন ১৭, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১৯:৩৮, জুন ১৭, ২০১৯

একসঙ্গে ছবি তুলছেন দুই দলের সমর্থকরাবিশ্বকাপের প্রতিটি ম্যাচে প্রিয় দলকে চিৎকার করে সমর্থন করেন ভক্তরা। তাদের হৈ-হুল্লোড়ে গ্যালারিতে তৈরি হয় যুদ্ধের মেজাজ। আজ সমারসেট কাউন্টি ক্রিকেট গ্রাউন্ডের চিত্র কিন্তু অন্যরকম। ম্যাচ শুরুর আগে বাংলাদেশ আর ওয়েস্ট ইন্ডিজের সমর্থকরা নেচে-গেয়ে, একসঙ্গে ছবি তুলে ‘যুদ্ধ’ নয়, ফুটিয়ে তুললেন সম্প্রীতির আবহ।

দুই দলের ভক্তদের মধ্যে ছিল সৌহার্দ্যক্যারিবিয়ানদের বিখ্যাত ক্যালিপসো সঙ্গীতের কথা অনেকেরই জানা। সেই ক্যালিপসোর সুরে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ভক্তরা নাচলেন, গাইলেন, মাতিয়ে তুললেন সবাইকে। তাদের সঙ্গে যোগ দিলেন প্রবাসী বাংলাদেশিরা। ক্যারিবিয়ানদের সঙ্গে তাল মিলিয়ে তারাও নাচলেন, ছবি তুললেন।

ওয়েস্ট ইন্ডিজ সমর্থকদের বর্ণিল সাজব্রিস্টল থেকে স্ত্রী-সন্তান নিয়ে খেলা দেখতে এসেছেন হাবিবুর রহমান। স্টেডিয়ামের বাইরে ক্যালিপসোর সুরে কিছুক্ষণ নাচলেন তিনি। টস হতেই রওনা হলেন গ্যালারির উদ্দেশে। যাওয়ার আগে বাংলা ট্রিবিউনকে বললেন, ‘ওদের সঙ্গে নাচতে পেরে খুব ভালো লাগছে। চারদিকে উৎসব-উৎসব পরিবেশ। ব্রিস্টল থেকে ভোরে রওনা হয়ে এখানে এসেছি। আশা করি, হাসিমুখে ব্রিস্টলে ফিরতে পারবো।’

ম্যাচের আগে নেচে-গেয়ে সবাইকে মাতিয়ে তুললেন তারাশুধু ক্যারিবিয়ানরা নয়, আজ বাংলাদেশিরাও এসেছেন বর্ণিল সাজে। কেউ বাঘের মতো ডোরাকাটা রংয়ে, কেউ গ্রাম বাংলার কৃষক সেজে মাতিয়ে তুলেছেন গ্যালারি। অনেকের মুখেই লাল-সবুজ রং।

কে জিতবে, কে হারবে এখনই বলা সম্ভব নয়। কিন্তু আজ মাঠের বাইরে আর ভেতরে বাংলাদেশ আর ওয়েস্ট ইন্ডিজ সমর্থকদের মধ্যে যে সম্প্রীতি দেখা গেলো তা সত্যিই মনে রাখার মতো।

/আরআই/এএআর/

লাইভ

টপ