সাকিবের ঘূর্ণি সামলাতে অ্যাগারের দ্বারস্থ অস্ট্রেলিয়া

Send
স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত : ১৫:১৪, জুন ১৯, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১৮:৩৮, জুন ১৯, ২০১৯

অস্ট্রেলিয়ার নেট অনুশীলনে অ্যাস্টন অ্যাগার।এবারের বিশ্বকাপে ক্যারিয়ারের সেরা ফর্মে আছেন সাকিব আল হাসান। প্রতিনিয়ত ব্যাটে-বলে রেকর্ড বইয়ে লিখে যাচ্ছেন নতুন পাতা। সঙ্গে হুমকি ছড়িয়ে দিচ্ছেন প্রতিপক্ষ শিবিরে। বৃহস্পতিবার নটিংহামে বাংলাদেশের বিপক্ষে ম্যাচে সাকিবকে নিয়ে ভীষণ সতর্ক অস্ট্রেলিয়া। বিশ্বসেরা অলরাউন্ডারের ঘূর্ণি সামলাতে আলাদা প্রস্তুতি নিচ্ছে তারা।

সাকিবকে ভয় পাওয়ারই কথা অস্ট্রেলিয়ার। দুই বছর আগে ঢাকা টেস্টে তার ঘূর্ণি ফাঁদে পড়ে হারের তিক্ত স্বাদ পেতে হয়েছিল। আর বাংলাদেশ পেয়েছিল অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে প্রথম টেস্ট জয়ের স্বাদ। তাই সাকিবকে সামলানোর আগে বাঁহাতি স্পিনার অ্যাস্টন অ্যাগারের দ্বারস্থ হয়েছে অজিরা।

বর্তমানে অস্ট্রেলিয়া ‘এ’ দলের হয়ে ইংল্যান্ড সফর করছেন অ্যাগার। গত বছর ইংল্যান্ড সফরে অজিদের প্রথম পছন্দের স্পিনার ছিলেন তিনি। তাই সাকিবকে সামলানোর কৌশল হিসেবে নেটে ডেকে আনা হয়েছে তাকে।

আইসিসির দেওয়া কমলা ক্যাপ পরে ফিঞ্চ-স্মিথ-ওয়ার্নারদের বোলিং করেছেন অ্যাগার। এ সময় তার সঙ্গে ছিলেন বিশ্বকাপ দলের দুই স্পিনার নাথান লায়ন ও অ্যাডাম জাম্পা।

বাংলাদেশের নিয়ন্ত্রিত স্পিন বোলিং কতটা বিষ ছড়াতে পারে তা দেখা গেছে প্রতিটি ম্যাচেই। মেহেদী হাসান মিরাজের রান আটকে রাখার কৌশল কাজে দিচ্ছে প্রতিটি ম্যাচে। বাংলাদেশের স্পিন আক্রমণ সামলাতে তাই বিশেষ প্রস্তুতি নিতে হচ্ছে বিশ্বকাপের বর্তমান চ্যাম্পিয়নদের।

এতদিন ভারতীয় স্পিনার প্রদীপ সাহু ও কেকে জিয়াসকে সঙ্গে নিয়ে সফর করে বেড়িয়েছে অস্ট্রেলিয়া। তারা দেশে ফিরে যাওয়ায় এবার অ্যাগারকে নেটে ডেকে আনা হলো।

অস্ট্রেলিয়া কোচ জাস্টিন ল্যাঙ্গার জানালেন, সাকিবকে নিয়ে তারা কেন এত সতর্ক, ‘বিশ্বের সেরা অলরাউন্ডারদের একজন সাকিব। একই সঙ্গে  দুর্দান্ত বাঁহাতি স্পিনারও। তাই অ্যাস্টনকে পেয়ে আমাদের খুব ভালো লাগছে। গত বছরও সে অস্ট্রেলিয়া দলের হয়ে খেলেছে। আমাদের মৌলিক নীতির জায়গায় পেশাদারিত্ব সর্বাগ্রে। অ্যাগারকে স্পিনার হিসেবে কাজে লাগানো আমাদের বাড়তি সুবিধা দেবে।’

/ এফআইআর/এমএমজে/

লাইভ

টপ