স্পেনের জার্সি গায়ে জড়াচ্ছেন আনসু ফাতি

Send
স্পোর্টস ডেস্ক
প্রকাশিত : ১২:৩৬, অক্টোবর ১২, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১২:৪৯, অক্টোবর ১২, ২০১৯

আনসু ফাতিঅনূর্ধ্ব-১৭ বিশ্বকাপের দলে সুযোগ হয়নি আনসু ফাতির। তার বাদ পড়ার কারণ হিসেবে স্প্যানিশ ফুটবল ফেডারেশন জানিয়েছিল, আরও বড় পর্যায়ে সুযোগের কথা। সেই ঘোষণার দিনকয়েক পরই স্পেনের জার্সি গায়ে জড়ানোর খবর পেলেন বার্সেলোনার ‘বিস্ময়-বালক’। স্পেনের অনূর্ধ্ব-২১ দলে জায়গা পেয়েছেন এই ফরোয়ার্ড।

গত মাসে স্পেনের নাগরিকত্ব পেয়েছেন গিনি বিসাউয়ে জন্ম নেওয়া ফাতি। স্পেনের নাগরিকত্ব পেতে গেলে ১০ বছর দেশটিতে থাকতে হয়, ফাতি এই ‘শর্ত’ ‍পূরণ করার পর স্প্যানিশ স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় তার নাগরিকত্বের বিষয়টি নিয়ে কাজ শুরু করে। অনূর্ধ্ব-১৭ বিশ্বকাপে খেলানোর জন্য স্প্যানিশ ফুটবল ফেডারেশনের তাড়াহুড়ো ছিল বলে জানিয়েছিল ইউরোপিয়ান মিডিয়া।

কিন্তু ১৬ বছর বয়সী এই ফরোয়ার্ডের জায়গা হয়নি ব্রাজিলে হতে যাওয়া ‍বিশ্বকাপে। অবশ্য কয়েকদিন পরই বয়সভিত্তিকে আরও বড় পর্যায়ে খেলার দরজার খুলে গেল ফাতির। মঙ্গলবার মন্টেনেগ্রোর বিপক্ষে স্পেনের জার্সি গায়ে জড়ানোর অপেক্ষায় তিনি।

বার্সেলোনা সতীর্থ কার্লেস পেরেসের বদলি হিসেবে স্পেনের অনূর্ধ্ব-২১ দলে সুযোগ পেয়েছেন ফাতি। স্প্যানিশ ফুটবল ফেডারেশন এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, ‘মাংশপেশীর চোটে অনূর্ধ্ব-২১ দল থেকে ছিটকে গেছেন কার্লেস পেরেস। তার জায়গায় আনসু ফাতিকে ডাকা হয়েছে।’

জন্মস্থান গিনি বিসাউ ছাড়াও পর্তুগালের হয়ে খেলার যোগ্যতা ছিল ফাতির। জন্মসূত্রে আফ্রিকার দেশটি, আর দাদার সূত্রে খেলতে পারতেন তিনি পর্তুগালের জার্সিতে। যদিও ফাতির পছন্দের তালিকায় সবসময়ই প্রথমে ছিল স্পেন।

বয়সভিত্তিক পর্যায়ে স্পেনের জার্সিতে খেললেও সিনিয়র পর্যায়ের ফুটবলে আবারও জাতীয় দল পরিবর্তনের সুযোগ থাকছে ফাতির। তখন চাইলে স্পেন বাদ দিয়ে গিনি বিসাউ কিংবা পর্তুগালের হয়ে খেলতে পারবেন তিনি। যদিও স্পেনের জার্সি গায়ে জড়াতে আরও কিছুটা সময় অপেক্ষায় থাকতে হচ্ছে ‍চ্যাম্পিয়নস লিগ ইতিহাসে সবচেয়ে কম বয়সে মাঠে নামা বার্সা ফরোয়ার্ডকে। মার্কা

/কেআর/

লাইভ

টপ