শেষটা ভালো করতে চান মাশরাফিরা

Send
বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট, কলকাতা থেকে
প্রকাশিত : ১৭:৩৯, মার্চ ২৫, ২০১৬ | সর্বশেষ আপডেট : ১৭:৪২, মার্চ ২৫, ২০১৬

A13T5572টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের প্রাথমিক রাউন্ড দুর্দান্তভাবেই শেষ করেছিল বাংলাদেশ। কিন্তু মূল পর্বের সেই ধারাবাহিকতা রাখতে পারেনি টাইগাররা। অস্ট্রেলিয়া ও ভারতের বিপক্ষে ভালো ম্যাচ খেলেও জিততে পারেনি বাংলাদেশ। ভারতের বিপক্ষে জেতা ম্যাচ হেরে হতাশায় ভেসেছেন ক্রিকেটাররা। তবে সবকিছু ভুলে মাশরাফি তাকিয়ে এখন গ্রুপ পর্বের শেষ ম্যাচে। কিউদের বিপক্ষে শেষ ম্যাচটিতে নিজেদের উজার করে খেলতে চায় বাংলাদেশ। কিউইদের হারিয়ে শেষটা ভালো করেই বিশ্বকাপ মিশন শেষ করতে চান টাইগাররা।

শুক্রবার সংবাদ সম্মেলনে মাশরাফি বলেন, ‘পাকিস্তানের সঙ্গে ম্যাচটা বাদ দিলে আমরা অস্ট্রেলিয়া ও ভারতের সঙ্গে ভালো ক্রিকেট খেলেছি। প্রথম ম্যাচে আমরা পাকিস্তানের সঙ্গে বাজেভাবে হারার পর, দ্বিতীয় ম্যাচে অস্ট্রেলিয়ার রানরেট বাড়ানোর প্রয়োজন ছিলো। তাই তারা পুশ করে ম্যাচটি ছিনিয়ে নিয়েছে। তারপরও আমরা ওই রকম পরিস্থিতি (তাসকিন ও আরাফাত সানিকে ছাড়া) অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ম্যাচটিতে লড়াই করেছি।'

তিনি আরও বলেন, 'ভারতের বিপক্ষে পুরো ম্যাচেই আমরা এগিয়ে ছিলাম। শেষ মুহূর্তে গিয়ে আমরা হেরে গেছি। শেষ দুটি ম্যাচে অনেক ইতিবাচক জিনিস আমরা অর্জন করেছি। যদি ভালো খেলার ধারাবাহিকতা নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষেও অব্যাহত রাখতে পারি সেক্ষেত্রে ভালো সম্ভাবনা আছে আমাদের।'

জেতার জন্য নিজেদের শতভাগ উজার করে দেবেন বলে জানিয়েছেন মাশরাফি। তিনি বলেন, ‘আমাদের হারানোর কিছু নেই। শেষ ম্যাচ আমাদের শতভাগ দিয়ে খেলতে হবে। চেষ্টা করবো অবশ্যই ভালো কিছু করার। যাতে করে শেষটা ভালো করতে পারি।’

বেঙ্গালুরুতে দুটি ম্যাচে খেলেছে বাংলাদেশ। চেন্নাস্বামীর উইকেটে ভালোই পারফরম্যান্স দেখিয়েছেন দলের বোলাররা। এই ম্যাচটি বেঙ্গালুরুতে হলে কতটা সুবিধা হতো এমন প্রশ্নে মাশরাফি বলেন, ‘বেঙ্গালুরুতে আরও কঠিন সময় গিয়েছে আমাদের; যদিও আমরা ভালো ক্রিকেট খেলেছি। তবে এখানে পছ্ন্দ করার অপশন নেই। ইডেনের উইকেটেও বল টার্ন হয়। টার্ন হলে এটা নিউজিল্যান্ডের জন্য ভালো সুযোগ। কেননা তাদের দলেও ভালো মানের স্পিনার আছে। উইকেটে টার্ন হলে আমরাও যে সুবিধা পাবো। এই সুবিধা নিউজিল্যান্ডও পাবে। আমি মনে করি, ব্যাটিং সহায়ক উইকেট হলে আমাদের ভালো ব্যাটিং করতে হবে। আর বোলিং সহায়ক উইকেট হলে আমাদের ক্যালকুলেটিভ বোলিং করতে হবে।’

/আরআই/এমআর/

লাইভ

টপ