behind the news
Vision  ad on bangla Tribune

হট ফর ক্লাব, নট ফর কান্ট্রি!

স্পোর্টস ডেস্ক১৫:৩২, এপ্রিল ০১, ২০১৬

4এবি ডি ভিলিয়ার্স ও লিওনেল মেসি দুজন দুই অঙ্গনের খেলোয়াড়। একজন ক্রিকেট ব্যাট হাতে দেখিয়ে যান অবিশ্বাস্য সব পারফরম্যান্স। আরেকজন পায়ে বল নিয়ে মাঠে প্রদর্শন করেন আশ্চর্য সব শিল্প!

বর্তমান ফুটবল প্রজন্মের সেরা খেলোয়াড় লিওনেল মেসি। বার্সার হয়ে একের পর এক রেকর্ড গড়ে চলেছেন তিনি। ক্লাবের হয়ে ম্যাচ প্রতি তার গড় গোল ০.৮৬। কিন্তু দেশের হয়ে নামলে যেন খোলসের ভেতর ঢুকে যান গ্রহের সেরা ফুটবলার। দেশের হয়ে ম্যাচ প্রতি তার গড় গোল ০.৪৬। কখনও বিশ্বকাপ জেতেননি। জেতেননি কোপা আমেরিকাও। দেশের বলতে অর্জন মাত্র অলিম্পিক জয়। তাকে সর্বকালের সেরা খেলোয়াড় বলতে এ কারণেই আপত্তি অনেকের।

ক্রিকেটেও এমন একজন এবি ডি ভিলিয়ার্স। সম্প্রতি তাকে 'ক্রিকেটের মেসি' বলে সম্বোধন করছেন অনেকে। বিভিন্ন ক্লাব ও ফ্র্যাঞ্চাইজির কাছে তিনি রীতিমতো হট কেক। দেশের হয়েও মাঝে মাঝে জ্বলে উঠলেও কিন্তু একটু চাপে যেন ভোঁতা অস্ত্র বনে যান।

ভিলিয়ার্সকে বলা হয় ক্রিকেটের বিস্ময়। বোলারদের বেধড়ক পেটানোর জন্য কেউ কেউ তাকে 'ডেভিল ইয়ার্স' বলেও ডাকেন। টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটের সবচেয়ে জনপ্রিয় টুর্নামেন্ট আইপিএলে ম্যাচ প্রতি তার গড় রান ৩৬.৭০। স্ট্রাইক রেট ১৪৪.৭৩! সেখানে দেশের হয়ে তার গড় ২৩.৫৮। স্ট্রাইক রেট ১৩১.৯১! তিনি ‌‌‌যেন হট ফর ক্লাব নট ফর কান্ট্রি!

পরিসংখ্যান দেখলে প্রশ্ন উঠা স্বাভাবিক তাহলে কি 'ক্রিকেটের মেসি' ভিলিয়ার্স। শুধু ২০১৫ সালের কথাই ধরা যাক। মেসি পঞ্চমবারের মতো জিতেছেন ফিফা বর্ষসেরা পুরস্কার। ডি ভিলিয়ার্স অবশ্য জিতে নিয়েছেন আইসিসির বর্ষসেরা ওয়ানডে ক্রিকেটারের পুরস্কার। কিন্তু জাতীয় দলের হয়ে উভয়ের অর্জন শূন্য। মেসি অবশ্য খেলেছেন কোপা আমেরিকার ফাইনালে। অন্যদিকে বরাবরের মতো বিশ্বকাপের সেমিফাইনাল থেকে বিদায় নিয়েছে ভিলিয়ার্সের দক্ষিণ আফ্রিকা। একবছর পর টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপেও ব্যর্থ ভিলিয়ার্স। ফলে এবার সুপান টেন থেকেই বিদায় নিয়েছে প্রোটিয়ারা।

/এমআর/

ULAB

লাইভ

Nitol ad on bangla Tribune
টপ