ফেসবুক, টুইটারে মার্কেটিং ক্যারিয়ার

Send
সরকার আফিক ।।
প্রকাশিত : ২১:৫১, নভেম্বর ০২, ২০১৫ | সর্বশেষ আপডেট : ২২:৩৩, ডিসেম্বর ০৬, ২০১৫

Career-cafe-2ক্ষুদ্র উদ্যোক্তা লাবিব আর ফারজানা একসঙ্গে অনলাইনে ব্যবসা শুরু করেন প্রায় দেড় বছর আগে। তারা ব্যবসার প্রসারের জন্য অনলাইনে ব্যাপক প্রচারণা চালান, বিশেষ করে সোশ্যাল মিডিয়াতে। কিন্তু দীর্ঘ সময়েও আশানুরূপ কোনও সাফল্য পাচ্ছিলেন না তারা। বার বার প্রশ্ন দেখা দেয়- খারাপ পণ্য বা নিন্মমানের সার্ভিসের রেকর্ড নাই, মার্কেটিংয়েও কোনও কমতি রাখেন নাই। তাহলে কেন তাদের এই ব্যর্থতা? এসব ভাবতে ভাবতে তারা দ্বারস্থ হন ক্যারিয়ার ক্যাফে নামক একটি প্রতিষ্ঠানের। যারা তরুণদের ক্যারিয়ার ও নানা উদ্যোগে সহয়তা করে আসছে বিভিন্ন কর্মশালার মাধ্যমে।

ক্যারিয়ার ক্যাফের উদ্যোগে সম্প্রতি নতুন উদ্যোক্তাদের নিয়ে অনুষ্ঠিত হয় ‘সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং অ্যান্ড ডিজিটাল মিডয়া বায়িং ফর স্টার্টআপ’ শীর্ষক ওয়ার্কশপ। ২৪ অক্টোবর শনিবার বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্রের অডিটোরিয়ামে এ কর্মশালাটি অনুষ্ঠিত হয়। এ কর্মশালায় অংশ নিলেন লাবিব আর ফারজানা। কর্মশালা শেষে তারা জানান, এই কর্মশালাতে অংশগ্রহণ করে তারা নতুন অনেক বিষয়ে জানতে পেরেছেন। সোশ্যাল মার্কেটিংয়ে তাদের ভুলগুলো ধরতে পেরেছেন। এখন তারা আবার নতুন উদ্যমে এগিয়ে যেতে পারবেন। 

12186515

কর্মশালাটি পরিচালনা করেন বাংলাদেশ ইন্টারনেট মার্কেটিং প্রফেশনালস-এর সহ-প্রতিষ্ঠাতা ও আন্তর্জাতিক খ্যাতি সম্পন্ন ডিজিটাল মার্কেটিং এক্সপার্ট আসিফ আনোয়ার পথিক ও গ্রীন অ্যান্ড রেড টেকনোলজিস-এর প্রধান বিক্রয় কর্মকর্তা ও ডিজিটাল মার্কেটিং বিশেষজ্ঞ লুৎফী চৌধুরী।

আসিফ আনোয়ার ডিজিটাল মার্কেটিংয়ের সহজপন্থা, সোশ্যাল মিডিয়াতে মার্কেট টার্গেট, অল্প খরচে অধিক মানুষের কাছে প্রচারসহ আর অনেক বিষয়ে তিনি আলোচনা করেন। সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিংয়ে সাধারণত অনেক ভুলের কারণে সঠিকভাবে উদ্যোক্তারা তাদের ভোক্তাদের নিকট পণ্যের প্রচার ঠিকমতো করতে পারে না। সেই ভুলগুলো তিনি সুন্দর করে তুলে ধরেন। তিনি অনেক হিডেন টিপস দেন যা সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিংয়ে খুবই সহায়ক।

পরবর্তী সেশনে গ্রীন অ্যান্ড রেড টেকনোলজিস এর প্রধান বিক্রয় কর্মকর্তা লুৎফী চৌধুরী জানান, বাংলাদেশে সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং এখন বিশাল বড় সম্ভাবনাময় ক্ষেত্র। নতুন উদ্যোক্তারা মিডিয়া মার্কেটিংয়ে কাজ করেই হতে পারেন সফল উদ্যোক্তা। এছাড়া তিনি ডিজিটাল মিডয়া বায়িং-এর উপর বিশেষ বক্তব্য রাখেন। তিনি জানান,  এড নেটওয়ার্ক হাউজ গ্রীন অ্যান্ড রেড টেকনোলজিস-এর এখন প্রায় ৪ হাজার ক্লায়েন্ট আছেন এবং আরও তিন হাজার পাবলিশার্স আছেন প্রক্রিয়াধীন।

Social

কর্মশালায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইবিএ-এর অধ্যাপিকা খায়ের জাহান সোগরা। তিনি নতুন উদ্যোক্তাদের উদ্দেশে বলেন, ‘তোমরা নিজেদের ভালো ও খারাপ গুণগুলো খুঁজে বের কর। ভালো গুণ বাড়ানোর ও খারাপ গুণ দূর করার চেষ্টা কর। যে ক্ষেত্রে তোমরা আনন্দ পাও সেখানেই কাজ কর। মনে রাখবে, ৫৫% কঠোর পরিশ্রম আর ৪৫% নেটওয়ার্ক রক্ষা করতে পারলে তোমার সাফল্য নিশ্চিত।‘

তিনি আরও বলেন, ‘প্রতিটি প্রতিষ্ঠানেই অন্তর্গত রাজনীতি চলে, তোমার উচিত সবাইকে সম্মান করা। কিন্তু কাকে বেশি মূল্য দিতে হবে এটা বুঝতে হবে।’ সর্বোপরি তিনি একটি কথা উল্লেখ করেন, পরিবারকে অবশ্যই সময় দিতে হবে। যারা চাকরিজীবী তাদের কখনোই এক প্রতিষ্ঠানে বেশিদিন অবস্থান না করার উপদেশ দেন তিনি। 

কর্মশালায় বিশেষ বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ইউনিফক্স ডিজিটালের সিইও সৌরভ ইসলাম, এনটিভির হেড অফ ডিজিটাল মার্কেটিং কবির আহমেদ, এবং ওয়েবএবল-এর সহপ্রতিষ্ঠাতা সাদাব মাহবুব। তারা উপস্থিত অংশগ্রহণকারীদের ডিজিটাল এবং সোশ্যাল মার্কেটিংয়ের বিষয়ে নানা প্রশ্নের জবাব দেন।

কর্মশালায় ৬০ জন নতুন উদ্যোক্তা অংশগ্রহণ করেন। কর্মশালা শেষে তাদেরকে সার্টিফিকেট দেওয়া হয়। কর্মশালাটি পরিচালনা করেন ক্যারিয়ার ক্যাফের প্রতিষ্ঠাতা শাব্বির আহমেদ তামীম ও সহ-প্রতিষ্ঠাতা এমরান আব্দুল্লাহ।

আয়োজনে সহযোগিতায় জি অ্যান্ড আর, স্মার্টস গেজেট্স্ অ্যান্ড ট্রেডিং, ম্যাট ফটোগ্রাফি ও বিম্পা। এছাড়া আয়োজনটির মিডিয়া পার্টনার ছিল বাংলা ট্রিবিউন।

/এএ/

লাইভ

টপ