X
বৃহস্পতিবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২১, ১৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

সেকশনস

২০৭০ সালে তীব্র গরমে বাস করবে ৩০০ কোটির বেশি মানুষ

আপডেট : ০৬ মে ২০২০, ১২:৪৩

জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে বিশ্বের ৩০০ কোটির বেশি মানুষ ২০৭০ সালের মধ্যে এমন এলাকায় বাস করবে যেখানকার উষ্ণ তাপমাত্রা ‘প্রায় বসবাসের অযোগ্য’। যদি গ্রিনহাউস গ্যাস নিঃসরণ উল্লেখযোগ্য মাত্রায় কমানো না যায় তাহলে পৃথিবীর অধিকাংশ মানুষকে ২৯ ডিগ্রি সেলসিয়াসের চেয়ে গরম আবহাওয়ায় বাস করতে হবে। নতুন এক গবেষণা প্রতিবেদনে এই আশঙ্কার কথা বলা হয়েছে বলে মঙ্গলবার জানিয়েছে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি।

_112154883_gettyimages-506040995

এক্সেটার বিশ্ববিদ্যালয়ের গ্লোবাল সিস্টেমস ইনস্টিটিউটের পরিচালক ও জলবায়ু বিশেষজ্ঞ টিম লেন্টন চীন, যুক্তরাষ্ট্র ও ইউরোপের বিজ্ঞানীদের নিয়ে এই গবেষণা করেছেন।

প্রতিবেদন অনুসারে, মানুষের আবাসের গড় তাপমাত্রা ১১-১৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। অল্প কিছু মানুষ গড়ে ২০-২৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রায় বাস করেন। এমন আবহাওয়াতে মানুষ কয়েক হাজার বছর ধরে বাস করে আসছেন। তবে বৈশ্বিক উষ্ণতা ৩ ডিগ্রি বৃদ্ধির ফলে এমন আবহাওয়ায় বাস করা অধিকাংশ মানুষ এর চেয়ে উষ্ণ আবহাওয়াতে বাস করতে বাধ্য হবে।  

সবচেয়ে বেশি প্রভাবিত এলাকাগুলোর মধ্যে রয়েছে উত্তর অস্ট্রেলিয়া, ভারত, আফ্রিকা, দক্ষিণ আমেরিকা ও মধ্যপ্রাচ্যের একাংশ।

গবেষণায় আশঙ্কা প্রকাশ করা হয়েছে, দরিদ্র এলাকাগুলোতে বাসকারী মানুষেরা গরম থেকে রক্ষার ব্যবস্থা করতে পারবে না।

বিবিসিকে টিম লেন্টন বলেন, সাগরের তুলনায় ভূমি উষ্ণ হচ্ছে দ্রুত। ফলে ভূমি উষ্ণ হওয়ার হার তিন ডিগ্রির বেশি। উষ্ণ এলাকাগুলোতে জনসংখ্যা বৃদ্ধি হবে, বিশেষ করে আফ্রিকার সাব-সাহারা অঞ্চলে। ফলে গড়ে ওই এলাকার সবাইকে উষ্ণ আবহাওয়ায় বাস করতে হবে।

তিনি আরও বলেন, উষ্ণ এলাকায় মানুষ বৃদ্ধির ফলে তাপমাত্রাও বাড়ছে। বিশ্ব তিন ডিগ্রি উষ্ণ পৃথিবীতে বাসকারীদের তাপমাত্রা ৭ ডিগ্রি বেশি উষ্ণ থাকে।

লেন্টন বলেন, আমার জন্য এই গবেষণা ধনীদের জন্য নয়, যারা শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত ভবনে বাস করতে পারবেন এবং যে কোনও কিছু থেকে নিজেকে রক্ষা করতে সক্ষম। আমাদের উদ্বেগের বিষয় হলো আবহাওয়া ও জলবায়ু থেকে যারা নিজেদের বিচ্ছিন্ন করতে পারবে না সেই মানুষেরা।

/এএ/এমএমজে/

সম্পর্কিত

আনুষ্ঠানিকভাবে প্রত্যাহার হলো ভারতের বিতর্কিত কৃষি আইন

আনুষ্ঠানিকভাবে প্রত্যাহার হলো ভারতের বিতর্কিত কৃষি আইন

নৌকাডুবিতে নাইজেরিয়ায় বহু শিশুর প্রাণহানি

নৌকাডুবিতে নাইজেরিয়ায় বহু শিশুর প্রাণহানি

কংগ্রেস নেতৃত্বাধীন জোটকে কটাক্ষ মমতার

কংগ্রেস নেতৃত্বাধীন জোটকে কটাক্ষ মমতার

১৫ ডিসেম্বর আন্তর্জাতিক ফ্লাইট চালু করছে না ভারত

১৫ ডিসেম্বর আন্তর্জাতিক ফ্লাইট চালু করছে না ভারত

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

আনুষ্ঠানিকভাবে প্রত্যাহার হলো ভারতের বিতর্কিত কৃষি আইন

আনুষ্ঠানিকভাবে প্রত্যাহার হলো ভারতের বিতর্কিত কৃষি আইন

নৌকাডুবিতে নাইজেরিয়ায় বহু শিশুর প্রাণহানি

নৌকাডুবিতে নাইজেরিয়ায় বহু শিশুর প্রাণহানি

কংগ্রেস নেতৃত্বাধীন জোটকে কটাক্ষ মমতার

কংগ্রেস নেতৃত্বাধীন জোটকে কটাক্ষ মমতার

১৫ ডিসেম্বর আন্তর্জাতিক ফ্লাইট চালু করছে না ভারত

১৫ ডিসেম্বর আন্তর্জাতিক ফ্লাইট চালু করছে না ভারত

৬ বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ দিল্লির দূষণের মাত্রা

৬ বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ দিল্লির দূষণের মাত্রা

সৌদি আরবে ওমিক্রন ভ্যারিয়েন্ট আক্রান্ত শনাক্ত

সৌদি আরবে ওমিক্রন ভ্যারিয়েন্ট আক্রান্ত শনাক্ত

টিকা না নেওয়াদের ভ্রমণ বিলম্বিত করতে ডব্লিউএইচও’র আহ্বান

টিকা না নেওয়াদের ভ্রমণ বিলম্বিত করতে ডব্লিউএইচও’র আহ্বান

নাইজেরিয়াতে ওমিক্রন ভ্যারিয়েন্ট শনাক্ত

নাইজেরিয়াতে ওমিক্রন ভ্যারিয়েন্ট শনাক্ত

দিল্লিতে পেট্রোলের দাম কমলো লিটারে ৮ রুপি

দিল্লিতে পেট্রোলের দাম কমলো লিটারে ৮ রুপি

ডেল্টাকে ছাপিয়ে যেতে পারে ওমিক্রন: দ. আফ্রিকার বিশেষজ্ঞ

ডেল্টাকে ছাপিয়ে যেতে পারে ওমিক্রন: দ. আফ্রিকার বিশেষজ্ঞ

সর্বশেষ

মধ্যরাতে দুই কাভার্ডভ্যানের সংঘর্ষে এক চালকের মৃত্যু

মধ্যরাতে দুই কাভার্ডভ্যানের সংঘর্ষে এক চালকের মৃত্যু

উড়োজাহাজে বোমার ভুয়া তথ্যটি আসে মালয়েশিয়ান নম্বরের ফোন কলে

উড়োজাহাজে বোমার ভুয়া তথ্যটি আসে মালয়েশিয়ান নম্বরের ফোন কলে

‘জরুরি অবতরণ করা’ বিদেশি উড়োজাহাজটিতে বোমা পাওয়া যায়নি

‘জরুরি অবতরণ করা’ বিদেশি উড়োজাহাজটিতে বোমা পাওয়া যায়নি

খালেদা জিয়াকে বিদেশে চিকিৎসার সুযোগ উন্নত রাজনৈতিক সংস্কৃতির জন্য ইতিবাচক হবে

২৩ নাগরিকের বিবৃতিখালেদা জিয়াকে বিদেশে চিকিৎসার সুযোগ উন্নত রাজনৈতিক সংস্কৃতির জন্য ইতিবাচক হবে

বোমা সন্দেহে শাহজালালে মালয়েশিয়া এয়ারলাইন্সের ‘জরুরি অবতরণ’

বোমা সন্দেহে শাহজালালে মালয়েশিয়া এয়ারলাইন্সের ‘জরুরি অবতরণ’

© 2021 Bangla Tribune