সেকশনস

হাজী দানেশ প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের চার শিক্ষার্থী র‌্যাবের হাতে আটক

 

 

 

 

আপডেট : ২০ জানুয়ারি ২০২১, ০১:৪৩

মাদক সেবন, বিক্রি ও চাঁদাবাজির মামলায় দিনাজপুরের হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (হাবিপ্রবি)’র চারজন শিক্ষার্থীকে আটক করে নিয়ে গেছে র‌্যাব-১৩ এর ক্রাইম প্রিভেনশন কোম্পানি সিপিসি-২ নীলফামারী দল। এই ঘটনার প্রতিবাদে ও আটককৃতদের ছেড়ে দেওয়ার দাবিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা প্রায় এক ঘণ্টা মহাসড়ক অবরোধ করেছে।

আজ মঙ্গলবার সন্ধ্যায় বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে বাঁশেরহাট এলাকা থেকে ওই চারজন শিক্ষার্থীকে আটক করে র‌্যাব। আটককৃত শিক্ষার্থীরা হলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের বিবিএ এর লেভেল-৪ সেমিস্টার-২ এর শিক্ষার্থী আবু সাঈদ রনি, জিএম মেহেদী, বিশ্ববিদ্যালয়ের বায়োকেমিস্ট অ্যান্ড মনিকুলার বায়োলজি বিভাগের মাস্টার্সের শিক্ষার্থী ইলিয়াস দেওয়ান ও কৃষি অনুষদের শেষ বর্ষের শিক্ষার্থী বাদল।

এদিকে র‌্যাবের হাতে শিক্ষার্থী আটকের বিষয়টি জানতে পেরে বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে দিনাজপুর-রংপুর মহাসড়ক অবরোধ করে অন্য শিক্ষার্থীরা। এ সময় তারা আটক শিক্ষার্থীদের ছেড়ে দেওয়ার দাবি জানায়। পরে স্থানীয় প্রশাসন ও পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে শিক্ষার্থীদের বুঝিয়ে অবরোধ প্রত্যাহার করায়।

দিনাজপুর কোতয়ালি থানার ওসি মোজাফফর হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এ বিষয়ে র‌্যাব-১৩ এর নীলফামারী সিপিসি-২ এর কোম্পানি কমান্ডার এএসপি মুন্না বিশ্বাস বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের কয়েকজন শিক্ষার্থী মাদক সেবন বিক্রি ও চাঁদাবাজি করে আসছিল এমন অভিযোগ আমাদের কাছে পূর্ব থেকেই ছিল। আজকে সিভিল পোশাকে ওই শিক্ষার্থীদের কাছে মাদক কেনার কৌশল অবলম্বন করি।

মাদক কিনতে গেলে তারা আমাদের কাছে ১০ হাজার টাকা চাঁদা দাবি করে। বিষয়টির সত্যতা পাওয়ায় তাৎক্ষণিক ওই চার শিক্ষার্থীকে আটক করে ক্যাম্পে নিয়ে আসি। বিষয়টি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টরকে জানানো হয়েছে। প্রক্টরের প্রতিনিধি আসলে মুচলেকা নিয়ে ওই শিক্ষার্থীদেরকে ছেড়ে দেওয়া হবে।

কথা হলে হাবিপ্রবি’র প্রক্টর ড. খালিদ হাসান ওই চার শিক্ষার্থীকে আটকের বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, র‌্যাবের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে যে মুচলেকা নিয়ে তাদেরকে ছেড়ে দেওয়া হবে। তাই রাতেই বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী প্রক্টর ড. রবিউল ও সহকারী প্রক্টর সিহাবুল র‌্যাবের ক্যাম্পে রওনা দিয়েছেন। ছাত্রদের ছাড়িয়ে আনলেই বিষয়টি সম্পূর্ণরূপে জানা যাবে।

/টিএন/

সম্পর্কিত

সড়ক দুর্ঘটনায় ৭ জেলায় নিহত ৮

সড়ক দুর্ঘটনায় ৭ জেলায় নিহত ৮

হারাগাছ পৌরসভায় আ.লীগের বিদ্রোহী প্রার্থীর জয়

হারাগাছ পৌরসভায় আ.লীগের বিদ্রোহী প্রার্থীর জয়

সৈয়দপুরে প্রথম নারী মেয়র আ.লীগের রাফিকা

সৈয়দপুরে প্রথম নারী মেয়র আ.লীগের রাফিকা

দুই প্রার্থীর সমর্থকদের হাতাহাতিতে ১ জন নিহতের অভিযোগ

দুই প্রার্থীর সমর্থকদের হাতাহাতিতে ১ জন নিহতের অভিযোগ

সৈয়দপুরে জাপা প্রার্থীর ভোট বর্জন

সৈয়দপুরে জাপা প্রার্থীর ভোট বর্জন

হারাগাছ পৌরসভায় বিএনপি সমর্থকদের শোডাউন

হারাগাছ পৌরসভায় বিএনপি সমর্থকদের শোডাউন

ট্রলি ও ভটভটির ধাক্কায় তিন জেলায় নিহত ৩

ট্রলি ও ভটভটির ধাক্কায় তিন জেলায় নিহত ৩

পঞ্চগড়ে গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরণ, মারা গেছেন আহত ইউনুস

পঞ্চগড়ে গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরণ, মারা গেছেন আহত ইউনুস

গাইবান্ধায় ৪ পুলিশ হত্যার ৮ বছর, শেষ হয়নি বিচার কাজ

গাইবান্ধায় ৪ পুলিশ হত্যার ৮ বছর, শেষ হয়নি বিচার কাজ

মায়ের গায়ে হাত তোলায় ছেলের জেল

মায়ের গায়ে হাত তোলায় ছেলের জেল

ঘুষের মামলায় দুদকের চার্জশিট, তবু স্বপদে দুই প্রকৌশলী!

ঘুষের মামলায় দুদকের চার্জশিট, তবু স্বপদে দুই প্রকৌশলী!

সর্বশেষ

সড়ক দুর্ঘটনায় ৭ জেলায় নিহত ৮

সড়ক দুর্ঘটনায় ৭ জেলায় নিহত ৮

১০৬টি চেক জাল করে ৩৬ লাখ টাকা লুটপাট!

১০৬টি চেক জাল করে ৩৬ লাখ টাকা লুটপাট!

হবিগঞ্জে বিএনপি প্রার্থীসহ ৪ মেয়র প্রার্থীর জামানত বাজেয়াপ্ত

হবিগঞ্জে বিএনপি প্রার্থীসহ ৪ মেয়র প্রার্থীর জামানত বাজেয়াপ্ত

গোপালগঞ্জে বিএনপি নেতা রিজভীর বিরুদ্ধে সমন

গোপালগঞ্জে বিএনপি নেতা রিজভীর বিরুদ্ধে সমন

খালেদা জিয়ার সঙ্গে বিএনপির তিন নেতার সাক্ষাৎ

খালেদা জিয়ার সঙ্গে বিএনপির তিন নেতার সাক্ষাৎ

মাছের দাম এক লাখ ৬৫ হাজার টাকা!

মাছের দাম এক লাখ ৬৫ হাজার টাকা!

মিনিবাসের ধাক্কায় স্কুলছাত্রী নিহত

মিনিবাসের ধাক্কায় স্কুলছাত্রী নিহত

সহপাঠীকে হত্যার দায়ে স্কুলছাত্রের মৃত্যুদণ্ড

সহপাঠীকে হত্যার দায়ে স্কুলছাত্রের মৃত্যুদণ্ড

আজ থেকে শুরু রাজনৈতিক দলগুলোর স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন

আজ থেকে শুরু রাজনৈতিক দলগুলোর স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন

ফেনসিডিল কারবারির যাবজ্জীবন

ফেনসিডিল কারবারির যাবজ্জীবন

চট্টগ্রামে তিন খাতে বিনিয়োগে আগ্রহী যুক্তরাষ্ট্র: রাষ্ট্রদূত

চট্টগ্রামে তিন খাতে বিনিয়োগে আগ্রহী যুক্তরাষ্ট্র: রাষ্ট্রদূত

নদীতে মাছ ধরতে চাওয়ায় জেলে খুন

নদীতে মাছ ধরতে চাওয়ায় জেলে খুন

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সড়ক দুর্ঘটনায় ৭ জেলায় নিহত ৮

সড়ক দুর্ঘটনায় ৭ জেলায় নিহত ৮

হারাগাছ পৌরসভায় আ.লীগের বিদ্রোহী প্রার্থীর জয়

হারাগাছ পৌরসভায় আ.লীগের বিদ্রোহী প্রার্থীর জয়

সৈয়দপুরে প্রথম নারী মেয়র আ.লীগের রাফিকা

সৈয়দপুরে প্রথম নারী মেয়র আ.লীগের রাফিকা

দুই প্রার্থীর সমর্থকদের হাতাহাতিতে ১ জন নিহতের অভিযোগ

দুই প্রার্থীর সমর্থকদের হাতাহাতিতে ১ জন নিহতের অভিযোগ

সৈয়দপুরে জাপা প্রার্থীর ভোট বর্জন

সৈয়দপুরে জাপা প্রার্থীর ভোট বর্জন

হারাগাছ পৌরসভায় বিএনপি সমর্থকদের শোডাউন

হারাগাছ পৌরসভায় বিএনপি সমর্থকদের শোডাউন

ট্রলি ও ভটভটির ধাক্কায় তিন জেলায় নিহত ৩

ট্রলি ও ভটভটির ধাক্কায় তিন জেলায় নিহত ৩

পঞ্চগড়ে গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরণ, মারা গেছেন আহত ইউনুস

পঞ্চগড়ে গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরণ, মারা গেছেন আহত ইউনুস

গাইবান্ধায় ৪ পুলিশ হত্যার ৮ বছর, শেষ হয়নি বিচার কাজ

গাইবান্ধায় ৪ পুলিশ হত্যার ৮ বছর, শেষ হয়নি বিচার কাজ


[email protected]
© 2021 Bangla Tribune
Bangla Tribune is one of the most revered online newspapers in Bangladesh, due to its reputation of neutral coverage and incisive analysis.