সেকশনস

ভাতিজিকে ব্লেড দিয়ে আঁচড়ে দিয়ে রক্তাক্ত, চাচা গ্রেফতার

আপডেট : ২১ জানুয়ারি ২০২১, ০৩:১৭

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় মুখোশ পরা সহযোগীদের হামলায় আহত ও ব্লেডের আঁচড়ে ক্ষত-বিক্ষত হওয়া শান্তা আক্তার (২৫) নামে এক নারীকে জেলা সদরের জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। তার অবস্থা স্থিতিশীল।
এদিকে, ওই ঘটনায় শান্তার তিন চাচার বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন তার মা। মামলাটি আমলে নিয়ে অভিযুক্ত তিন জনের একজন আলী মিয়াকে তার চাচাকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গ্রেফতার ব্যক্তির নাম আলী মিয়া। মঙ্গলবার রাতে সদর উপজেলার সুলতানপুর ইউনিয়নের শিলাউর গ্রাম থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। বুধবার তাকে আদালতে সোপর্দ করা হলে বিচারক তাকে জেল হাজতে পাঠানোর নির্দেশ দেন।
এ ব্যাপারে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর মডেল থানার ওসি মো. আবদুর রহিম বলেন, গত রবিবার সন্ধ্যার দিকে সদর উপজেলার সুলতানপুর ইউনিয়নের শিলাউর গ্রামে শান্তা আক্তার নামে তিন সন্তানের জননীকে হাত-পা বেঁধে মারধর শেষে তার শরীরের বিভিন্ন স্থানে ব্লেড দিয়ে পোঁচ দিয়ে রক্তাক্ত করে। এই ঘটনার শন্তার মা রৌশনারা আক্তার বাদী হয়ে শান্তার তিন চাচা হুমায়ূন মিয়া, আলী মিয়া ও রতন মিয়ার বিরুদ্ধে থানায় মামলা দায়ের করেন। বাকি আসামিদের ও গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।
উল্লেখ্য আহত শান্তা আক্তার সুলতানপুর ইউনিয়নের শিলাউর গ্রামের আলগাবাড়ির আইয়ুব মিয়ার মেয়ে ও একই গ্রামের পাশাপাশি বাড়ির রাজমিস্ত্রি রাসেল মিয়ার স্ত্রী। কয়েক দিন আগে শান্তার ছেলের সাথে চাচা হুমায়ূন মিয়ার ছেলের ঝগড়া হয়েছিল। এ নিয়ে হুমায়ূন মিয়া শান্তাকে গালাগাল করে দেখে নেওয়ার হুমকি দেন। গত রবিবার সন্ধ্যায় শান্তা আক্তার ব্রাহ্মণবাড়িয়া শহরে আসার জন্য বাড়ি থেকে বের হলে কয়েকজন মুখোশপড়া ব্যক্তি শান্তাকে আটক করে তার হাত-পা বেঁধে ফেলে। পরে শান্তার শরীরের বিভিন্ন স্থানে ব্লেড দিয়ে আঁচড় দিয়ে তাকে রক্তাক্ত করে। এ সময় শান্তার চিৎকারে তার মা রওশন আরাসহ স্থানীয়রা এগিয়ে এলে মুখোশধারীরা পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয়রা আহত শান্তাকে উদ্ধার করে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে আসে। শান্তার মায়ের ধারণা, এ ঘটনায় হুমায়ুন ও তার অপর দুই ভাই জড়িত।

/টিএন/

সম্পর্কিত

মিষ্টিতে দেওয়া হতো কাপড়ের রং

মিষ্টিতে দেওয়া হতো কাপড়ের রং

কেন বারবার রক্তাক্ত বাঘাইছড়ি

কেন বারবার রক্তাক্ত বাঘাইছড়ি

সন্তানসহ বাজার করে ফেরা হলো না সুমির

সন্তানসহ বাজার করে ফেরা হলো না সুমির

বিস্কুট-নুডুলসসহ ৩০ কোটি টাকার সরঞ্জাম পুড়ে ছাই

বিস্কুট-নুডুলসসহ ৩০ কোটি টাকার সরঞ্জাম পুড়ে ছাই

৮ মাসে ৩৪ কোটি টাকার সোনা জব্দ, মূল হোতারা অধরা

৮ মাসে ৩৪ কোটি টাকার সোনা জব্দ, মূল হোতারা অধরা

প্রধানমন্ত্রীর কাছে বিচার চাইলেন মুজাক্কিরের মা-বাবা

প্রধানমন্ত্রীর কাছে বিচার চাইলেন মুজাক্কিরের মা-বাবা

ইউপি সদস্যকে গুলি করে হত্যার ঘটনায় মামলা

ইউপি সদস্যকে গুলি করে হত্যার ঘটনায় মামলা

করোনার টিকা কী করে নেবেন দুর্গম এলাকার মানুষ

করোনার টিকা কী করে নেবেন দুর্গম এলাকার মানুষ

মোটরসাইকেলে চাপা দিয়ে পালিয়ে গেলো প্রাইভেটকার, নিহত ১

মোটরসাইকেলে চাপা দিয়ে পালিয়ে গেলো প্রাইভেটকার, নিহত ১

বিএনপি-জামায়াতকে নিষিদ্ধের দাবি যুবলীগ সাধারণ সম্পাদকের

বিএনপি-জামায়াতকে নিষিদ্ধের দাবি যুবলীগ সাধারণ সম্পাদকের

সাংবাদিক মুজাক্কিরকে হত্যার প্রতিবাদে বিভিন্ন জেলায় মানববন্ধন

সাংবাদিক মুজাক্কিরকে হত্যার প্রতিবাদে বিভিন্ন জেলায় মানববন্ধন

সর্বশেষ

জিয়াউর রহমানের খেতাব কারও দান নয়: মির্জা ফখরুল

জিয়াউর রহমানের খেতাব কারও দান নয়: মির্জা ফখরুল

লাইফটাইম অ্যাচিভমেন্ট ফর ডিজিটাল ব্যাংকিং পুরস্কার পাচ্ছেন ড. আতিউর

লাইফটাইম অ্যাচিভমেন্ট ফর ডিজিটাল ব্যাংকিং পুরস্কার পাচ্ছেন ড. আতিউর

দায়িত্ব নিলেন পাবনা পৌরসভার নতুন মেয়র

দায়িত্ব নিলেন পাবনা পৌরসভার নতুন মেয়র

‘মুজিববর্ষে সোনার বাংলা সবুজ করার লক্ষ্যে বৃক্ষরোপণ অভিযান’

‘মুজিববর্ষে সোনার বাংলা সবুজ করার লক্ষ্যে বৃক্ষরোপণ অভিযান’

স্পিনারদের দাপটে দুই দিনেই ইংলিশ বধ ভারতের

স্পিনারদের দাপটে দুই দিনেই ইংলিশ বধ ভারতের

রফতানি শিল্পে পুনঃঅর্থায়ন ঋণ দেবে ১৪ ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান

রফতানি শিল্পে পুনঃঅর্থায়ন ঋণ দেবে ১৪ ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান

যেকোনও ফোন বদলে নেওয়া যাবে মটোরোলা স্মার্টফোন

যেকোনও ফোন বদলে নেওয়া যাবে মটোরোলা স্মার্টফোন

রড বোঝাই ভ্যান ও ট্রলির সংঘর্ষে ভ্যানচালক নিহত

রড বোঝাই ভ্যান ও ট্রলির সংঘর্ষে ভ্যানচালক নিহত

পুদুচেরিতে রাষ্ট্রপতির শাসন জারি

পুদুচেরিতে রাষ্ট্রপতির শাসন জারি

সামরিক অভ্যুত্থান নিয়ে সতর্কবার্তা আর্মেনিয়ার প্রধানমন্ত্রীর

সামরিক অভ্যুত্থান নিয়ে সতর্কবার্তা আর্মেনিয়ার প্রধানমন্ত্রীর

বিশ্বমানের প্রশিক্ষণ পেলেন ফায়ার ফাইটাররা

বিশ্বমানের প্রশিক্ষণ পেলেন ফায়ার ফাইটাররা

মিষ্টিতে দেওয়া হতো কাপড়ের রং

মিষ্টিতে দেওয়া হতো কাপড়ের রং

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মিষ্টিতে দেওয়া হতো কাপড়ের রং

মিষ্টিতে দেওয়া হতো কাপড়ের রং

কেন বারবার রক্তাক্ত বাঘাইছড়ি

কেন বারবার রক্তাক্ত বাঘাইছড়ি

সন্তানসহ বাজার করে ফেরা হলো না সুমির

সন্তানসহ বাজার করে ফেরা হলো না সুমির

বিস্কুট-নুডুলসসহ ৩০ কোটি টাকার সরঞ্জাম পুড়ে ছাই

বিস্কুট-নুডুলসসহ ৩০ কোটি টাকার সরঞ্জাম পুড়ে ছাই

৮ মাসে ৩৪ কোটি টাকার সোনা জব্দ, মূল হোতারা অধরা

৮ মাসে ৩৪ কোটি টাকার সোনা জব্দ, মূল হোতারা অধরা

প্রধানমন্ত্রীর কাছে বিচার চাইলেন মুজাক্কিরের মা-বাবা

প্রধানমন্ত্রীর কাছে বিচার চাইলেন মুজাক্কিরের মা-বাবা

ইউপি সদস্যকে গুলি করে হত্যার ঘটনায় মামলা

ইউপি সদস্যকে গুলি করে হত্যার ঘটনায় মামলা

করোনার টিকা কী করে নেবেন দুর্গম এলাকার মানুষ

করোনার টিকা কী করে নেবেন দুর্গম এলাকার মানুষ

মোটরসাইকেলে চাপা দিয়ে পালিয়ে গেলো প্রাইভেটকার, নিহত ১

মোটরসাইকেলে চাপা দিয়ে পালিয়ে গেলো প্রাইভেটকার, নিহত ১


[email protected]
© 2021 Bangla Tribune
Bangla Tribune is one of the most revered online newspapers in Bangladesh, due to its reputation of neutral coverage and incisive analysis.