X
রবিবার, ১৮ এপ্রিল ২০২১, ৫ বৈশাখ ১৪২৮

সেকশনস

ডাকাতির সময় নারীকে শ্বাসরোধে হত্যা, ৪ জনের মৃত্যুদণ্ড

আপডেট : ০৩ মার্চ ২০২১, ১৮:১৪

পাঁচ বছর আগে ডাকাতির সময় এক নারীকে হত্যার ঘটনায় চার জনকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন আদালত। একই আদেশে আদালত প্রত্যেক আসামিকে ২০ হাজার টাকা অর্থদণ্ড, অনাদায়ে আরও এক বছর কারাদণ্ড দিয়েছেন। বুধবার (৩ মার্চ) চট্টগ্রামের চতুর্থ অতিরিক্ত মহানগর দায়রা জজ শরিফুল আলম ভুঁইয়া এ রায় ঘোষণা করেন। রাষ্ট্রপক্ষের অতিরিক্ত পিপি নোমান চৌধুরী এ তথ্য জানিয়েছেন।

দণ্ডপ্রাপ্তরা হলো, ফটিকছড়ির ১৯ নম্বর সমিতির হাট ইউনিয়নের সাদেক নগরের মৃত নুরুল ইসলামের ছেলে মো. ইয়াছিন (২৭), হাটহাজারীর পূর্ব মেখল গ্রামের মো. মুসার ছেলে মনসুর (২৫), একই এলাকার মো. ইউসুফের ছেলে মো. তৈয়ব প্রকাশ রানা (২৪) এবং সৈয়দুর রহমান বাড়ির আহমদ ছফার ছেলে মো. ইসহাক।

নোমান চৌধুরী বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘পাঁচ বছর আগে ডাকাতির সময় আসামিরা পারভিন আক্তার নামে এক নারীকে শ্বাসরোধে হত্যা করে। এ ঘটনায় নিহত নারীর স্বামী হত্যা ও দস্যুতার অভিযোগে মামলা দায়ের করেন। ওই মামলায় আসামিদের বিরুদ্ধে আনা হত্যার অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় আদালত চার জনকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছেন। একই আদেশে দস্যুতার ধারায় (৩৯৪ ধারা) আসামিদের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড, প্রত্যেককে ২০ হাজার টাকা করে জরিমানা, অনাদায়ে আরও এক বছর কারাদণ্ড দিয়েছেন।’

তিনি আরও বলেন, ‘রায় ঘোষণার সময় আসামি ইয়াছিন উপস্থিত ছিলেন। অপর আসামিরা পলাতক রয়েছেন। ঘটনার পর বিভিন্ন সময় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হলেও পরবর্তী সময়ে তারা উচ্চ আদালত থেকে জামিনে বের হয়ে যান।’

মামলার নথি থেকে জানা যায়, ২০১৬ সালের ৫ মার্চ রাতে চট্টগ্রাম নগরীর বায়েজিদ বোস্তামি থানার রৌফাবাদে বাংলাদেশ কো-অপারেটিভ হাউজিং সোসাইটির একটি বাসায় পারভিন আকতার নামে ওই নারীকে হত্যা করা হয়। ওই দিন রাতে অপরিচিত এক ব্যক্তি প্রথমে দরজায় এসে দাঁড়ায়। এরপর আরও তিন জন জোর করে ঘরে ঢোকে। চার জন মিলে পারভিন ও তার ছেলে সাঈদকে আটকে ফেলে। সাঈদকে গলা টিপে হত্যা করার ভয় দেখিয়ে আলমারির চাবি নিয়ে তিন ভরি স্বর্ণালঙ্কার, সাত হাজার টাকা ও মোবাইল ফোন ছিনিয়ে নেয় তারা। এ সময় চিৎকার করতে গেলে পারভিনের মুখ চেপে ধরে মেঝেতে উপুড় করে চেপে ধরে আসামিরা। এতে শ্বাসরোধে পারভিনের মৃত্যু হয়। এ ঘটনায় পরদিন পারভিনের স্বামী নুরুল আলম বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেন। ওই মামলায় ২০১৬ সালের ১৩ জুন অভিযোগপত্র দেয় পুলিশ। ২০১৭ সালের ৫ মার্চ অভিযোগ গঠন করা হয়। রাষ্ট্রপক্ষে মোট ১০ জনের সাক্ষ্যগ্রহণ শেষে আদালত বুধবার আসামিদের চার জনকে মৃত্যুদণ্ড দেন।

 

/এমএএ/এমওএফ/

সম্পর্কিত

মামুনুলের বিরুদ্ধে অর্ধশত মামলা, সহসাই মিলছে না মুক্তি

মামুনুলের বিরুদ্ধে অর্ধশত মামলা, সহসাই মিলছে না মুক্তি

করোনায় আক্রান্ত হয়ে হাজতির মৃত্যু

করোনায় আক্রান্ত হয়ে হাজতির মৃত্যু

বুড়িমাড়ীতে জুয়েল হত্যা: আরও এক আসামি গ্রেফতার

বুড়িমাড়ীতে জুয়েল হত্যা: আরও এক আসামি গ্রেফতার

আবারও চিকিৎসক দম্পতিকে জরিমানা

আবারও চিকিৎসক দম্পতিকে জরিমানা

রিমান্ডে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় নেওয়া হয়েছে মাদানীকে

রিমান্ডে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় নেওয়া হয়েছে মাদানীকে

বাঁশখালীতে নিহতদের পরিবারকে ৩ কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ দিতে নোটিশ

বাঁশখালীতে নিহতদের পরিবারকে ৩ কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ দিতে নোটিশ

বরখাস্ত কারারক্ষী মাদকসহ আটক

বরখাস্ত কারারক্ষী মাদকসহ আটক

জেলা স্বাস্থ্য তত্ত্বাবধায়কের বাসা থেকে কিশোরী গৃহকর্মীর লাশ উদ্ধার

জেলা স্বাস্থ্য তত্ত্বাবধায়কের বাসা থেকে কিশোরী গৃহকর্মীর লাশ উদ্ধার

সোনারগাঁয়ে সহিংসতা: কাউন্সিলর ফারুক ২ দিনের রিমান্ডে

সোনারগাঁয়ে সহিংসতা: কাউন্সিলর ফারুক ২ দিনের রিমান্ডে

অপরাধ দমনে ২ শতাধিক সিসি ক্যামেরা

অপরাধ দমনে ২ শতাধিক সিসি ক্যামেরা

আগে জীবন পরে জীবিকা: প্রধান বিচারপতি

আগে জীবন পরে জীবিকা: প্রধান বিচারপতি

সর্বশেষ

মামুনুলের বিরুদ্ধে অর্ধশত মামলা, সহসাই মিলছে না মুক্তি

মামুনুলের বিরুদ্ধে অর্ধশত মামলা, সহসাই মিলছে না মুক্তি

করোনায় আক্রান্ত হয়ে হাজতির মৃত্যু

করোনায় আক্রান্ত হয়ে হাজতির মৃত্যু

লকডাউনে হয়রানি বন্ধে স্বাস্থ্য অধিদফতরের আইডি কার্ড

লকডাউনে হয়রানি বন্ধে স্বাস্থ্য অধিদফতরের আইডি কার্ড

শেখ হাসিনা কূটনীতির ক্ষেত্রে দেশকে নতুন উচ্চতায় নিয়ে গেছেন: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

শেখ হাসিনা কূটনীতির ক্ষেত্রে দেশকে নতুন উচ্চতায় নিয়ে গেছেন: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

পচা চাল পালিশ!

পচা চাল পালিশ!

কেমন আছেন সেই মা

কেমন আছেন সেই মা

ঝড়ে উড়ে গেলো প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া উপহারের ঘরের চালা!

ঝড়ে উড়ে গেলো প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া উপহারের ঘরের চালা!

রাখাইনে অস্থিতিশীলতা দেশের নিরাপত্তার জন্য উদ্বেগের বিষয়: পররাষ্ট্র সচিব

রাখাইনে অস্থিতিশীলতা দেশের নিরাপত্তার জন্য উদ্বেগের বিষয়: পররাষ্ট্র সচিব

শ্রমিক নিহতের ঘটনায় বিচার বিভাগীয় তদন্ত দাবি সাকির

শ্রমিক নিহতের ঘটনায় বিচার বিভাগীয় তদন্ত দাবি সাকির

যুক্তরাষ্ট্রের উইসকনসিনে বন্দুকধারীর গুলিতে নিহত ৩

যুক্তরাষ্ট্রের উইসকনসিনে বন্দুকধারীর গুলিতে নিহত ৩

বুড়িমাড়ীতে জুয়েল হত্যা: আরও এক আসামি গ্রেফতার

বুড়িমাড়ীতে জুয়েল হত্যা: আরও এক আসামি গ্রেফতার

শিশু নির্যাতনের মামলায় মাদ্রাসার অধ্যক্ষকে জামিন দেননি হাইকোর্ট

শিশু নির্যাতনের মামলায় মাদ্রাসার অধ্যক্ষকে জামিন দেননি হাইকোর্ট

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

করোনায় আক্রান্ত হয়ে হাজতির মৃত্যু

করোনায় আক্রান্ত হয়ে হাজতির মৃত্যু

বুড়িমাড়ীতে জুয়েল হত্যা: আরও এক আসামি গ্রেফতার

বুড়িমাড়ীতে জুয়েল হত্যা: আরও এক আসামি গ্রেফতার

রিমান্ডে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় নেওয়া হয়েছে মাদানীকে

রিমান্ডে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় নেওয়া হয়েছে মাদানীকে

বরখাস্ত কারারক্ষী মাদকসহ আটক

বরখাস্ত কারারক্ষী মাদকসহ আটক

জেলা স্বাস্থ্য তত্ত্বাবধায়কের বাসা থেকে কিশোরী গৃহকর্মীর লাশ উদ্ধার

জেলা স্বাস্থ্য তত্ত্বাবধায়কের বাসা থেকে কিশোরী গৃহকর্মীর লাশ উদ্ধার

সোনারগাঁয়ে সহিংসতা: কাউন্সিলর ফারুক ২ দিনের রিমান্ডে

সোনারগাঁয়ে সহিংসতা: কাউন্সিলর ফারুক ২ দিনের রিমান্ডে

অপরাধ দমনে ২ শতাধিক সিসি ক্যামেরা

অপরাধ দমনে ২ শতাধিক সিসি ক্যামেরা

বাঁশখালীতে পুলিশ-শ্রমিক সংঘর্ষের ঘটনায় দুই মামলা

বাঁশখালীতে পুলিশ-শ্রমিক সংঘর্ষের ঘটনায় দুই মামলা

Bangla Tribune is one of the most revered online newspapers in Bangladesh, due to its reputation of neutral coverage and incisive analysis.
© 2021 Bangla Tribune