X
সোমবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২১, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

সেকশনস

পররাষ্ট্রমন্ত্রী হওয়ার যোগ্যতা ছিল কিনা বারবার শুনতে হয়েছে: ডা. দীপু মনি

আপডেট : ০৮ মার্চ ২০২১, ১৭:১৪

শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি বলেছেন, ‘আমার আগে বা পরে কোনও পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সেই মন্ত্রী হওয়ার যোগ্যতা আছে কিনা সেই প্রশ্ন কোনও সাংবাদিক বন্ধু করেননি। আমার নামের সঙ্গে অনেক এ বি সি ডি লাগানো থাকলেও আমাকে সেটা শুনতে হয়েছে। এটি বারবার শুনতে হয়েছে এবং সব নারীকেই শুনতে হয়।’

সোমবার (৮ মার্চ) জাতীয় প্রেস ক্লাব আয়োজিত ‘মুক্তিযুদ্ধে নারী’ শীর্ষক এক আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

দীপু মনি বলেন, ‘২০০৯ সালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আমাকে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব দিয়েছিলেন। অনভ্যস্ততার তো একটা বিষয় ছিলই। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের চেয়ারে সাংবাদিকরা সব সময় বয়স্ক একজন পুরুষকে দেখেই আসছেন। কিন্তু হঠাৎ একজন নারী আসায়, যিনি তখন খুব বেশি বয়স্ক নন, সেটা দেখে একটা ধাক্কা লাগতেই পারে। কিন্তু আমার আগে বা পরে কোনও পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সেই মন্ত্রী হওয়ার যোগ্যতা আছে কিনা সেই প্রশ্ন কোনও সাংবাদিক বন্ধু করেননি।’

নির্যাতনের শিকার নারীর প্রতি সমাজে আরেক প্রকার নির্যাতন হয় উল্লেখ করে দীপু মনি বলেন, ‘এটি একটি চরম বৈষম্য। এখন ধর্ষণের ঘটনা ঘটলে আদালতের নির্দেশনা আছে ধর্ষণের শিকার নারীর ছবি ছাপানো যাবে না। ধর্ষক বিচারের রায়ে শাস্তি পায়। আর যে নারী ধর্ষণের শিকার হয় তার জন্য প্রতিদিনই মৃত্যুদণ্ড। সারাটা জীবন তাকে অস্পৃশ্য ভাবা হয়। এটা পুরোপুরি মানসিকতার ব্যাপার। একাত্তরে যা হয়েছিল তার থেকে ঘৃণ্য একটি জায়গায় আমরা পৌঁছেছি। ভাষা একটি খুব জরুরি বিষয়। আমরা ভাষা দিয়ে কীভাবে একটি নারীকে দাবিয়ে রাখি। যখন কেউ ধর্ষণের শিকার হয় আমরা বলি সম্ভ্রমহানি হয়েছে। আমাকে কুকুর কামড় দিলে তো সম্ভ্রমহানি হয় না। একটা পুরুষ ধর্ষণ করলে একটা নারীর কীভাবে সম্ভ্রমহানি হয়? সম্ভ্রমহানি তো সেই পুরুষের হওয়ার কথা। আমরা কেন সম্ভ্রমহারা পুরুষ বলি না ধর্ষককে?’

তিনি আরও বলেন, নারীর প্রতি প্রতিহিংসার অস্ত্র হিসেবে ধর্ষণকে প্রয়োগ করা হয় সারা বিশ্বে।

আলোচনা সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন জাতীয় প্রেস ক্লাবের সভাপতি ফরিদা ইয়াসমিন, সাধারণ সম্পাদক ইলিয়াস খান, কবি হাসান হাফিজ, নারী সাংবাদিক কেন্দ্রের সভাপতি নাসিমুন আরা হক মিনু প্রমুখ।

আরও পড়ুন-

অধিকারটা আদায় করে নিতে হবে: প্রধানমন্ত্রী

/এসও/এফএস/এমওএফ/

সম্পর্কিত

সর্বজনীন শান্তির জন্য প্রতিজ্ঞাবদ্ধ হয়ে কর্মযজ্ঞে নামার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

সর্বজনীন শান্তির জন্য প্রতিজ্ঞাবদ্ধ হয়ে কর্মযজ্ঞে নামার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

আজ থেকে গণপরিবহনে হাফ ভাড়া কার্যকর

আজ থেকে গণপরিবহনে হাফ ভাড়া কার্যকর

পিয়ন-সুইপারের হাতে দুই সিটির যানবাহনের স্টিয়ারিং

পিয়ন-সুইপারের হাতে দুই সিটির যানবাহনের স্টিয়ারিং

অভিযানেও নিয়ন্ত্রণে আসছে না বাস ভাড়া

অভিযানেও নিয়ন্ত্রণে আসছে না বাস ভাড়া

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

সর্বজনীন শান্তির জন্য প্রতিজ্ঞাবদ্ধ হয়ে কর্মযজ্ঞে নামার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

সর্বজনীন শান্তির জন্য প্রতিজ্ঞাবদ্ধ হয়ে কর্মযজ্ঞে নামার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

আজ থেকে গণপরিবহনে হাফ ভাড়া কার্যকর

আজ থেকে গণপরিবহনে হাফ ভাড়া কার্যকর

পিয়ন-সুইপারের হাতে দুই সিটির যানবাহনের স্টিয়ারিং

পিয়ন-সুইপারের হাতে দুই সিটির যানবাহনের স্টিয়ারিং

অভিযানেও নিয়ন্ত্রণে আসছে না বাস ভাড়া

অভিযানেও নিয়ন্ত্রণে আসছে না বাস ভাড়া

৩৪২টি বাসের সাড়ে ৪ লাখ টাকা জরিমানা

৩৪২টি বাসের সাড়ে ৪ লাখ টাকা জরিমানা

আজ থেকে রাজধানীতে সিটিং সার্ভিস বন্ধ

আজ থেকে রাজধানীতে সিটিং সার্ভিস বন্ধ

গণপরিবহন বন্ধ, তবু কেন দিনভর যানজট?

গণপরিবহন বন্ধ, তবু কেন দিনভর যানজট?

অবাধে বাড়ছে মোটরসাইকেল, বাড়ছে মৃত্যু

অবাধে বাড়ছে মোটরসাইকেল, বাড়ছে মৃত্যু

সড়কগুলোর নাম কেউ জানে না

সড়কগুলোর নাম কেউ জানে না

এক বছরেই বদলে যাবে ঢাকা, কমবে যানজট

এক বছরেই বদলে যাবে ঢাকা, কমবে যানজট

সর্বশেষ

মন্ত্রীত্বের লোভে অমানুষ হওয়া উচিত না: ডা. জাফরুল্লাহ

মন্ত্রীত্বের লোভে অমানুষ হওয়া উচিত না: ডা. জাফরুল্লাহ

ঢাকা সিএমএইচে ভাস্কর্যসহ চারটি স্থাপনার উদ্বোধন করলেন সেনাপ্রধান

ঢাকা সিএমএইচে ভাস্কর্যসহ চারটি স্থাপনার উদ্বোধন করলেন সেনাপ্রধান

পরিবেশের সুরক্ষায় স্কয়ার টয়লেট্রিজের চমকপ্রদ বিজ্ঞাপন

পরিবেশের সুরক্ষায় স্কয়ার টয়লেট্রিজের চমকপ্রদ বিজ্ঞাপন

মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদফতরের ইএমআইএস সেবা সাময়িক বন্ধ

মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদফতরের ইএমআইএস সেবা সাময়িক বন্ধ

সম্রাটের সহযোগী মেহেদী আলমসহ দুজন কারাগারে

সম্রাটের সহযোগী মেহেদী আলমসহ দুজন কারাগারে

© 2021 Bangla Tribune