X
রবিবার, ১৬ মে ২০২১, ২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮

সেকশনস

ভোটের হারে উচ্ছ্বসিত বিজেপি, দুইশ’ পারের আশা নেতাদের

আপডেট : ২৩ এপ্রিল ২০২১, ২২:৩৪

পশ্চিমবঙ্গে একুশের বিধানভা নির্বাচনের প্রায় অন্তিম লগ্নে এসে উপস্থিত হয়েছে। ইতোমধ্যে ষষ্ঠ দফার ভোট শেষ। প্রতীক্ষায় রয়েছে বাকি দু’দফার ভোট। এরইমধ্যে বাংলার ভোটদানের হার দেখে উচ্চসিত গেরুয়া শিবির। বাকি দু’দফায় যদি ভোটদানের হার যদি একইরকম থাকে তাহলে বিজেপির হাইকমান্ডের ঠিক করে দেওয়া ২০০ বিধানসভা আসন জেতার লক্ষ্যমাত্রাকে অর্জনের পরেও অতিরিক্ত কয়েকটি আসন পাওয়ার আশা করছে বঙ্গ বিজেপি।

একুশের নির্বাচনের ভোটদানের হার এখনও পর্যন্ত প্রথম দফায় ৮০ শতাংশ, দ্বিতীয় দফায় ৮০.৪৩ শতাংশ, তৃতীয় দফায় ৭৮ শতাংশ, চতুর্থ দফায় ৭৮.৪৩ শতাংশ, পঞ্চম দফায় ৮২.৪৯ শতাংশ এবং ষষ্ঠ দফায় ৭৯.১১ শতাংশ। এই সবকটি দফা মিলিয়ে শতাংশের বিচারের এবারের ভোটে প্রায় ৮০ ভাগ ভোটার তাদের মত প্রকাশ করে ফেলেছেন।

রাজনৈতিক বিশ্লেষকদের মতে, এই বিপুল সংখ্যক ভোটদানের হার বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই ক্ষমতাসীন সরকারের অজনপ্রিয়তা বিরুদ্ধে ভোট হিসেবে চিহ্নিত হয়ে থাকে। আর তা যদি হয়, তাহলে বিজেপির বাংলায় ক্ষমতায় আসার বাস্তবতাকে উড়িয়ে দেওয়া যায় না।

রাজনীতির এই সংখ্যাতত্ত্বের হিসাবই একুশের ভোটে নবান্ন দখলের স্বপ্ন দেখাচ্ছে বঙ্গ বিজেপিকে। সূত্রের খবর, বিজেপি হাইকমান্ডের কাছে যে হিসাব পাঠানো হয়েছিল বিধানসভা ভোটের আগে, একুশের ভোটে বাংলায় কটি আসন বিজেপির পেতে পারে তা বর্তমানের বাস্তবতাকে ছাপিয়ে যাচ্ছে বলেই ধারণা মুরলীধর সেন লেনের কর্তাদের। তাদের ধারনা, উত্তরবঙ্গের মতো মধ্যবঙ্গ এবং দক্ষিণবঙ্গেও একাধিক আসনে তৃণমূলকে পিছনে ফেলে জয়ের পথে হাঁটছে বিজেপি। গত কয়েকদিন ধরে বিজেপির শীর্ষ নেতাদের বডি ল্যাঙ্গুয়েজে সেই আশাবাদই ফুটে উঠছে।

বিজেপির রাজ্য নেতা ও বিশিষ্ট সাংবাদিক রন্তিদেব সেনগুপ্ত বলেন, ‘ভোটদানের হার দেখে এটি স্পষ্ট মানুষ এবার তার নিজের পছন্দের প্রার্থীকে ভোট দিতে পেরেছেন। যা গণতন্ত্রের পক্ষে শুভ লক্ষণ। এটি দেখে আমার মনে হচ্ছে এখন পর্যন্ত ১৭০ থেকে ১৭৫ আসন বিজেপির পক্ষে আসতে চলেছে। কিন্তু পরবর্তী দফার ক্ষেত্রে করোনা পরিস্থিতি একটা ফ্যাক্টর হয়ে দাঁড়াতে পারে। এই পরিস্থিতি পরে দুটি দফায় করোনা কারণে কলকাতায় ভোটদানের হার কমে যেতে পারে।’

বিজেপির উত্তরবঙ্গের নেতা দিপ্তীমান সেনগুপ্ত বলেন, ‘পরে দু’টি দফায় আমাদের লক্ষ্য বাম-কংগ্রেস-আইএসএফ জোটকে ৪৯-এর নিচে নামিয়ে আনা। কারণ, ৪৯ জন বিধায়ক থাকলে রাজ্যসভার একটা আসন কনর্ফাম হয়ে যায়। সেক্ষেত্রে কোনোভাবেই আমরা চাইব না সংযুক্ত মোর্চা ৪৯ আসন পাক। আবার তৃণমূল একাধিক রাজ্যসভার সাংসদ পাক। জোট এবং তৃণমূল রাজসভার আসন জেতার জন্য প্রয়োজনীয় সংখ্যক বিধায়ক জোগাড় না করতে পারলে ওরা সাংসদ বের করার জন্য নিজেদের মধ্যে মধ্যস্থতা করবে। তাহলে পরবর্তীতে এদের চরিত্র আরও পরিষ্কার হবে বাংলার মানুষের কাছে।’

দিপ্তীমান সেনগুপ্ত আরও বলেন, ‘আমরা পরবর্তী দু’দফায় ৫৫ থেকে ৬০টি বিধানসভা আসন পাওয়ার মতো অবস্থায় রয়েছি। এই আসনগুলো আসলে আমরা দুইশো' পার করতে পারব। ইতোমধ্যে ষষ্ঠ দফার পর্যন্ত ভোটের হিসাবে আমরা সরকার গড়ার জন্য ম্যাজিক ফিগার পেরিয়ে গিয়েছি। ১৫০ থেকে ১৫৫ টি বিধানসভা আসন আমরা এই ছয় দফা থেকে পাচ্ছি এটা আমাদের অভ্যন্তরীণ হিসাব। বাংলার বেশিরভাগ মানুষ এই ছয় দফায় ভোটদানের মধ্য দিয়ে বিজেপির সরকার গঠনের পক্ষে তাদের রায় জানিয়ে দিয়েছে। এটি ভোটদানের হারেই স্পষ্ট হয়ে গিয়েছে বলে আমরা মনে করছি।’

/এএ/

সম্পর্কিত

বিদ্রোহী শহরের নিয়ন্ত্রণ নিলো মিয়ানমার সেনাবাহিনী

বিদ্রোহী শহরের নিয়ন্ত্রণ নিলো মিয়ানমার সেনাবাহিনী

ভারতীয় ও ব্রিটিশ ভ্যারিয়েন্টের বিরুদ্ধে কার্যকর কোভ্যাক্সিন

ভারতীয় ও ব্রিটিশ ভ্যারিয়েন্টের বিরুদ্ধে কার্যকর কোভ্যাক্সিন

ফেসবুকে পরিচয়, জঙ্গলে নিয়ে নারীকে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ ২৫ জনের

ফেসবুকে পরিচয়, জঙ্গলে নিয়ে নারীকে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ ২৫ জনের

বাইডেনের ফোনের পর বেপরোয়া ইসরায়েল, আরও ২৬ ফিলিস্তিনিকে হত্যা

বাইডেনের ফোনের পর বেপরোয়া ইসরায়েল, আরও ২৬ ফিলিস্তিনিকে হত্যা

ভারতে দৈনিক সংক্রমণ আরও কমলো

ভারতে দৈনিক সংক্রমণ আরও কমলো

পশ্চিমবঙ্গে মদের দোকানে দীর্ঘ লাইন

পশ্চিমবঙ্গে মদের দোকানে দীর্ঘ লাইন

বাইডেনের ফোন পেয়েই হামলা অব্যাহত রাখার ঘোষণা নেতানিয়াহুর

বাইডেনের ফোন পেয়েই হামলা অব্যাহত রাখার ঘোষণা নেতানিয়াহুর

ইসরায়েলকে সমর্থন জানিয়ে ফোন বাইডেনের, ফিলিস্তিনকে হামলা থামানোর আহ্বান

ইসরায়েলকে সমর্থন জানিয়ে ফোন বাইডেনের, ফিলিস্তিনকে হামলা থামানোর আহ্বান

দিল্লিতে মোদি বিরোধী পোস্টার, আটক ১৫

দিল্লিতে মোদি বিরোধী পোস্টার, আটক ১৫

সর্বশেষ

প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টিনে থাকা ভারতফেরত রোগীর মৃত্যু

প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টিনে থাকা ভারতফেরত রোগীর মৃত্যু

সড়ক দুর্ঘটনায় কলেজছাত্রীসহ নিহত ২

সড়ক দুর্ঘটনায় কলেজছাত্রীসহ নিহত ২

বৃদ্ধাশ্রমের সংবাদ সংগ্রহে গিয়ে হামলার শিকার ২ সংবাদকর্মী, থানায় জিডি

বৃদ্ধাশ্রমের সংবাদ সংগ্রহে গিয়ে হামলার শিকার ২ সংবাদকর্মী, থানায় জিডি

বিদ্রোহী শহরের নিয়ন্ত্রণ নিলো মিয়ানমার সেনাবাহিনী

বিদ্রোহী শহরের নিয়ন্ত্রণ নিলো মিয়ানমার সেনাবাহিনী

আমেরিকান নারীদের ১৩০ কোটি ডলার দেবে ড. ইউনূসের প্রতিষ্ঠান

আমেরিকান নারীদের ১৩০ কোটি ডলার দেবে ড. ইউনূসের প্রতিষ্ঠান

টিকা মজুত আছে ৬ লাখ ৮০ হাজার ডোজ

টিকা মজুত আছে ৬ লাখ ৮০ হাজার ডোজ

সাইক্লোন ‘তকতের’ প্রভাব পড়বে বাংলাদেশে?

সাইক্লোন ‘তকতের’ প্রভাব পড়বে বাংলাদেশে?

প্রধানমন্ত্রীর কাছ থেকে এক কোটি টাকা পেলো হকি ফেডারেশন

প্রধানমন্ত্রীর কাছ থেকে এক কোটি টাকা পেলো হকি ফেডারেশন

ফিলিস্তিনের সমস্যা সমাধানে নিরাপত্তা পরিষদের প্রতি বাংলাদেশের আহ্বান

ফিলিস্তিনের সমস্যা সমাধানে নিরাপত্তা পরিষদের প্রতি বাংলাদেশের আহ্বান

সীমিত আকারেই চলবে পুঁজিবাজারে লেনদেন

সীমিত আকারেই চলবে পুঁজিবাজারে লেনদেন

‘টিকা উৎপাদনের অনুমতি দেওয়া হয়নি’

‘টিকা উৎপাদনের অনুমতি দেওয়া হয়নি’

মানুষ যেভাবে গেছে সেভাবেই ফিরছে (ফটোস্টোরি)

মানুষ যেভাবে গেছে সেভাবেই ফিরছে (ফটোস্টোরি)

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

বিদ্রোহী শহরের নিয়ন্ত্রণ নিলো মিয়ানমার সেনাবাহিনী

বিদ্রোহী শহরের নিয়ন্ত্রণ নিলো মিয়ানমার সেনাবাহিনী

ভারতীয় ও ব্রিটিশ ভ্যারিয়েন্টের বিরুদ্ধে কার্যকর কোভ্যাক্সিন

ভারতীয় ও ব্রিটিশ ভ্যারিয়েন্টের বিরুদ্ধে কার্যকর কোভ্যাক্সিন

ফেসবুকে পরিচয়, জঙ্গলে নিয়ে নারীকে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ ২৫ জনের

ফেসবুকে পরিচয়, জঙ্গলে নিয়ে নারীকে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ ২৫ জনের

বাইডেনের ফোনের পর বেপরোয়া ইসরায়েল, আরও ২৬ ফিলিস্তিনিকে হত্যা

বাইডেনের ফোনের পর বেপরোয়া ইসরায়েল, আরও ২৬ ফিলিস্তিনিকে হত্যা

ভারতে দৈনিক সংক্রমণ আরও কমলো

ভারতে দৈনিক সংক্রমণ আরও কমলো

পশ্চিমবঙ্গে মদের দোকানে দীর্ঘ লাইন

পশ্চিমবঙ্গে মদের দোকানে দীর্ঘ লাইন

বাইডেনের ফোন পেয়েই হামলা অব্যাহত রাখার ঘোষণা নেতানিয়াহুর

বাইডেনের ফোন পেয়েই হামলা অব্যাহত রাখার ঘোষণা নেতানিয়াহুর

© 2021 Bangla Tribune