X
বুধবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২১, ৬ আশ্বিন ১৪২৮

সেকশনস

ঈদের আগে ২ দিন ব্যাংক খোলা

আপডেট : ০৭ মে ২০২১, ১২:০৬

ঈদের আগে ব্যাংক খোলা থাকছে মাত্র দুই দিন। আগামী রবিবার ( ৯ মে ) এবং মঙ্গলবার (১১ মে) এই দুই দিন ছাড়া ঈদের আগে সাধারণ মানুষ ব্যাংকে লেনদেন করতে পারবেন না। ঈদ শেষ হওয়ার পর আগামী ১৬ মে রবিবার সাধারণ গ্রাহকরা ব্যাংকে লেনদেন করতে পারবেন। এ কারণে হঠাৎ করেই ব্যাংকে ভিড় বেড়ে গেছে। অতিরিক্ত ভিড় থাকায় হিমশিম খেতে হচ্ছে ব্যাংক কর্মকর্তাদের।

বৃহস্পতিবার (৬ মে) রাজধানীর মতিঝিল  ও পল্টন এলাকায় বেশ কয়েকটি ব্যাংক ঘুরে এ চিত্র দেখা যায়।

ব্যাংক কর্মকর্তাদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, ঈদকেন্দ্রিক গ্রাহকের উপস্থিতি বেশি ছিল। গ্রাহকের বেশিরভাগই নগদ টাকা উত্তোলনের জন্য এদিন ব্যাংকে এসেছেন।

বৃহস্পতিবার (৬ মে) ব্যাংক খোলার পর পরই শাখাগুলোতে ভিড় করেন গ্রাহকরা। বেশিরভাগ শাখায় গ্রাহকের লম্বা লাইন দেখা গেছে। একই অবস্থা তৈরি হয়েছে এটিএম বুথগুলোতেও।

বেসরকারি এনসিসি ব্যাংকের গ্রাহক আজিজ সরদার জানান,  ঈদের বাকি এখনও সাত দিন। কিন্তু ব্যাংক খোলা থাকবে মাত্র দুই দিন। এ কারণে ব্যাংকে টাকা তুলতে এসেছেন তিনি। তার মতো অন্যরাও আজ ভিড় করেছেন। হয়তো ব্যাংক থেকে টাকা তুলে  কেনাকাটা শেষ করতে চাচ্ছেন অনেকে। এজন্যই  সবাই ব্যাংকমুখী হয়েছেন।

এদিকে বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্দেশনা অনুযায়ী, ঈদুল ফিতরের আগে আর  মাত্র দুই দিন ব্যাংক খোলা। আগামী রবি ও মঙ্গলবার ব্যাংকে লেনদেন করা যাবে। ১৪ মে যদি ঈদ হয়, তাহলে বুধবার (১৩ মে) কেবল পোশাক শিল্প ও রফতানি সংশ্লিষ্ট লেনদেন হয়— এমন সব ব্যাংক শাখা খোলা রাখার কথা বলা হয়েছে।

আগামীকাল শুক্রবার (৭ মে ) থেকে ১৪ মে পর্যন্ত ৭ দিনের মধ্যে রবিবার (৯ মে) ব্যাংক খোলা। পরদিন সোমবার (১০ মে) পবিত্র শবে কদরের ছুটি। এরপর ঈদের আগে মঙ্গলবার (১১ মে) ব্যাংক খোলা থাকবে। এছাড়া বাকি ৫ দিন ব্যাংক বন্ধ। তবে ঈদের আগে তৈরি পোশাকশিল্পের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বেতন-ভাতা পরিশোধের জন্য এবং রফতানি বাণিজ্য অব্যাহত রাখতে ঢাকা মহানগরী, আশুলিয়া, টঙ্গী, গাজীপুর, সাভার, ভালুকা, নারায়ণগঞ্জ ও চট্টগ্রামে অবস্থিত ব্যাংক শাখা ১০ মে এবং  ১৪ মে ঈদ সাপেক্ষে ১৩ মে খোলা রাখতে বলেছে বাংলাদেশ ব্যাংক।

এদিকে সরকার ঘোষিত সর্বাত্মক লকডাউন চলাকালে সীমিত আকারে  উপজেলা শহরের শাখাগুলো সপ্তাহে তিন দিন বন্ধ ও তিন দিন খোলা থাকছে। ব্যাংক খোলা সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপনে বলা হয়, প্রতিটি ব্যাংকের উপজেলা শহরের একটি শাখা খোলা থাকবে রবি, মঙ্গল ও বৃহস্পতিবার। ফলে যেসব উপজেলায় গার্মেন্টস কারখানা নেই, সেসব উপজেলায় ঈদের আগে মাত্র দুই দিন ব্যাংক খোলা।

/জিএম/এপিএইচ/

সম্পর্কিত

শতভাগ গ্যাস আমদানির দিকে ঝুঁকছে দেশ

শতভাগ গ্যাস আমদানির দিকে ঝুঁকছে দেশ

সঞ্চয়পত্রের মুনাফার হার কমলো

সঞ্চয়পত্রের মুনাফার হার কমলো

পদত্যাগ করলেন সাউথ বাংলা ব্যাংকের চেয়ারম্যান

পদত্যাগ করলেন সাউথ বাংলা ব্যাংকের চেয়ারম্যান

৪২ ধরনের পণ্য রফতানিতে মিলবে নগদ সহায়তা

৪২ ধরনের পণ্য রফতানিতে মিলবে নগদ সহায়তা

পণ্য পরিবহন স্বাভাবিক চায় বিজিএমইএ, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠক

আপডেট : ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১, ২২:২৩

বাংলাদেশ কাভার্ড ভ্যান-ট্রাক-প্রাইমমুভার পণ্য পরিবহন মালিক অ্যাসোসিয়েশন ও বাংলাদেশ ট্রাকচালক শ্রমিক ফেডারেশন আজ (২১ সেপ্টেম্বর) থেকে তিন দিনের জন্য কর্মবিরতি শুরু করেছে। এর ফলে পোশাক শিল্পে গভীর উদ্বেগ সৃষ্টি হয়েছে। এ পরিস্থিতিতে বিজিএমইএ’র ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এস এম মান্নান (কচি) এর নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধিদল স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামালের সঙ্গে বৈঠক করেছেন। তারা শিল্পের সব কার্যক্রম অব্যাহত রাখার স্বার্থে অনতিবিলম্বে সড়কপথে পণ্য পরিবহন পরিস্থিতি স্বাভাবিককরণে উদ্যোগ নিতে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর প্রতি অনুরোধ জানান।

মঙ্গলবার (২১ সেপ্টেম্বর) বিজিএমইএ থেকে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

বিজিএমইএ’র প্রতিনিধি দলে আরও ছিলেন—সহ-সভাপতি শহিদউল্লাহ আজিম, সহ-সভাপতি (অর্থ) খন্দকার রফিকুল ইসলাম, মো. নাসির উদ্দিন এবং পরিচালক মো. খসরু চৌধুরী।

বিজিএমইএ’র প্রতিনিধি দল জানান, পোশাক শিল্পের প্রধান রফতানি বাজারগুলোতে করোনা সংক্রমণ প্রতিরোধে গণহারে টিকাদান কার্যক্রম নেওয়ায় এসব দেশে দোকানপাট খুলছে। যার ফলশ্রুতিতে এখন পোশাক শিল্পে প্রচুর ক্রয়াদেশ আসছে। তারা বলেন, পোশাক শিল্প একটি টাইম বাউন্ড শিল্প। এ শিল্পের জন্য প্রতিটি ঘণ্টার মূল্য আছে এবং উদ্যোক্তাদের ক্রেতাদের শর্ত (স্বল্পতম সময়ের মধ্যে উৎপাদন) মেনে নিয়ে উৎপাদন ও রফতানি কার্যক্রম সম্পাদন করতে হয়। তাই, এই মুহূর্তে কর্মবিরতির কারণে সড়কপথে পণ্য পরিবহন বন্ধ হলে তা শিল্পকে ক্ষতিগ্রস্ত করবে। তারা সড়কপথে পণ্য পরিবহন স্বাভাবিক রাখতে আশু পদক্ষেপ গ্রহণের জন্য স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে অনুরোধ জানান। মন্ত্রী অতি দ্রুত পরিবহন নেতাদের সঙ্গে আলোচনা করে বিষয়টি সমাধানের বিষয়ে বিজিএমইএ নেতৃবৃন্দকে আশ্বস্ত করেন।

বিজিএমইএ প্রতিনিধিদল আরও জানায়, মহামারির কারণে দোকান ফাঁকা বলে অনেক ক্রেতা এয়ার ফ্রেইটে পণ্য পাঠাতে বলেছে। ক্রেতাদের তুমুল চাহিদার কারণে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে কনটেইনার কার্গোর জট সৃষ্টি হয়েছে। অথচ, রফতানি পণ্য তাৎক্ষণিক স্ক্যানিং

করার জন্য বিমান বন্দরে পর্যাপ্ত সংখ্যক মেশিন নেই। মন্ত্রী বিজিএমইএ প্রতিনিধি দলের বক্তব্যের সঙ্গে একমত পোষণ করে বিষয়টি সুরাহার আশ্বাস দেন।

 

/জিএম/আইএ/

সম্পর্কিত

রফতানি সহায়তায় অডিট ফার্ম নিয়োগে নতুন নির্দেশনা বাংলাদেশ ব্যাংকের

রফতানি সহায়তায় অডিট ফার্ম নিয়োগে নতুন নির্দেশনা বাংলাদেশ ব্যাংকের

বিদ্যুৎ ও জ্বালানির দ্রুত সরবরাহ বৃদ্ধি আইন বাতিলের দাবি

বিদ্যুৎ ও জ্বালানির দ্রুত সরবরাহ বৃদ্ধি আইন বাতিলের দাবি

শতভাগ গ্যাস আমদানির দিকে ঝুঁকছে দেশ

শতভাগ গ্যাস আমদানির দিকে ঝুঁকছে দেশ

চার টেক জায়ান্ট ভ্যাট দিলো পৌনে ৮ কোটি টাকা 

চার টেক জায়ান্ট ভ্যাট দিলো পৌনে ৮ কোটি টাকা 

রফতানি সহায়তায় অডিট ফার্ম নিয়োগে নতুন নির্দেশনা বাংলাদেশ ব্যাংকের

আপডেট : ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১, ২০:৫৮

ব্যাংকে নিয়োজিত অডিট ফার্ম দিয়ে রফতানি ভর্তুকির আবেদনপত্র নিরীক্ষা করানো যাবে। প্রয়োজনে অতিরিক্ত অডিট ফার্ম নিয়োগ দেওয়া যাবে। মঙ্গলবার (২১ সেপ্টেম্বর) বাংলাদেশ ব্যাংকের বৈদেশিক মুদ্রা ও নীতি বিভাগ থেকে এ সংক্রান্ত একটি সার্কুলার জারি করা হয়েছে।

এর আগে ব্যাংক ও রফতানি ভর্তুকি যাচাইয়ে আলাদা আলাদা অডিট ফার্ম নিয়োগের নির্দেশনা ছিল।

বাংলাদেশে কার্যরত সব অনুমোদিত ডিলারের কাছে পাঠানো নির্দেশনায় বলা হয়, নিরীক্ষার কাজ দ্রুত করার জন্য অতিরিক্ত ফার্ম নিয়োগের প্রয়োজন হলে সে বিষয়ে যৌক্তিকতা ও প্রয়োজনীয় তথ্যসহ অডিট ফার্মের সংখ্যা উল্লেখপূর্বক বাংলাদেশ ব্যাংক বরাবর আবেদন করতে হবে।

 

/জিএম/আইএ/

সম্পর্কিত

৪২ ধরনের পণ্য রফতানিতে মিলবে নগদ সহায়তা

৪২ ধরনের পণ্য রফতানিতে মিলবে নগদ সহায়তা

পুঁজিবাজার থেকে ওটিসি মার্কেট বাদ

পুঁজিবাজার থেকে ওটিসি মার্কেট বাদ

পদত্যাগে বাধ্য ব্যাংককর্মীদের চাকরি ফেরত দিতে নির্দেশ

পদত্যাগে বাধ্য ব্যাংককর্মীদের চাকরি ফেরত দিতে নির্দেশ

কৃষকের জন্য ৩ হাজার কোটি টাকার নতুন প্রণোদনা

কৃষকের জন্য ৩ হাজার কোটি টাকার নতুন প্রণোদনা

বিদ্যুৎ ও জ্বালানির দ্রুত সরবরাহ বৃদ্ধি আইন বাতিলের দাবি

আপডেট : ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৯:৪১

বিদ্যুৎ ও জ্বালানির দ্রুত সরবরাহ বৃদ্ধি (বিশেষ বিধান) আইন-২০১০ বাতিলের দাবি জানিয়েছেন বিশিষ্টজনেরা। পাশাপাশি এলপিজিসহ পেট্রোলিয়াম পণ্যের মূল্য নির্ধারণের ক্ষমতা বিইআরসি’র কাছ থেকে সরিয়ে নেওয়ার উদ্যোগের নিন্দা জানিয়ে ওই ক্ষমতা সরিয়ে না নেওয়ার দাবি করেন তারা।

মঙ্গলবার (২১ সেপ্টেম্বর) কনজুমার অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ(ক্যাব)  আয়োজিত বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতে সুশাসন নিশ্চিতের লক্ষ্যে এক অনলাইন নাগরিক সভায় এই দাবি জানানো হয়।

সভায় সুলতানা কামাল, স্থপতি মোবাশ্বের হোসেন, অধ্যাপক বদরুল ইমাম, অধ্যাপক ইজাজ হোসেন, প্রকৌশলী সালেক সুফী, অধ্যাপক এমএম আকাশ, অধ্যাপক এম. শামসুল আলম, অ্যাডভোকেট রেজওয়ানা হাসান, অধ্যাপক তানজিম উদ্দিন খান, তুরিন আফরোজসহ জেলা-উপজেলা পর্যায়ের ভোক্তা প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।

এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে ক্যাব এই তথ্য জানায়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, বক্তারা বিদ্যুৎ ও জ্বালানির দ্রুত সরবরাহ বৃদ্ধি (বিশেষ বিধান) আইন-২০১০ বাতিলের দাবি করেছে। তবে বিশেষ কোনও ক্ষেত্রে সুইচ চ্যালেঞ্জের মাধ্যমে আনসলিসিটেড কোনও প্রস্তাব বিবেচনা করা যেতে পারে।

এছাড়া বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতের সুশাসন নিশ্চিত করার লক্ষ্যে বেশ কিছু দাবি জানানো হয়। দাবিগুলো হচ্ছে‑ কোনও ভাড়া কিংবা দ্রুত ভাড়াভিত্তিক বিদ্যুৎকেন্দ্র থেকে ক্রয় চুক্তির মেয়াদ কোনভাবেই আর বাড়ানো যাবে না,  এলপিজিসহ পেট্রোলিয়াম পণ্যের মূল্য নির্ধারণের ক্ষমতা বিইআরসির কাছ থেকে সরিয়ে নেওয়ার উদ্যোগের ব্যাপারে নিন্দা জানিয়ে ওই ক্ষমতা সরিয়ে না নেওয়ার দাবি করা হয়। এছাড়া বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতের সেবা সংস্থাগুলোতে চাকরিতে ছিলেন, এমন কোন ব্যক্তি চাকরি ছেড়ে যাওয়ার ৫ বছর পর বিইআরসি'র সদস্য পদের যোগ্য ও উপযুক্ত হবেন এমন বিধান করার দাবি জানান তারা। অন্যদিকে এসব সেবা সংস্থার পরিচালনা বোর্ড থেকে বিদ্যুৎ ও জ্বালানি মন্ত্রণালয়ের সকল কর্মকর্তাকে সরিয়ে নেওয়ার দাবি করেন তারা।

ক্যাবের জ্বালানি উপদেষ্টা শামসুল আলম বলেন, আমরা বেশ কিছু দাবি জানিয়েছি। এসবের মধ্যে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হচ্ছে এই কালো আইন বাতিল করা। পাশাপাশি কুইক রেন্টালের মেয়াদ যাতে না বাড়ানো হয়। তিনি বলেন, বিইআরসির মাধ্যমে এলপিজির দাম নির্ধারণ করা হলে ভোক্তারা সুবিধা পাবে নইলে একপক্ষের সুবিধা দেখা হবে। অন্যদিকে এই খাতের সুশাসন নিশ্চিত করতে হলে পরিচালনা বোর্ডগুলো থেকে কর্মকর্তাদের সরিয়ে দিতেই হবে। নইলে সুষ্ঠুভাবে কাজ করা সম্ভব নয়।

/এসএনএস/এমএস/

শতভাগ গ্যাস আমদানির দিকে ঝুঁকছে দেশ

আপডেট : ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১, ২২:০৩

শতভাগ গ্যাস আমদানির দিকে ঝুঁকছে দেশ। নতুন করে তেল গ্যাস অনুসন্ধানের ক্ষেত্রে বড় সাফল্য না পাওয়া আর দ্রুত মজুত ফুরিয়ে আসার কারণে ক্রমে আমদানি নির্ভরতা বাড়ছে। আগামী ১০ বছরের মধ্যে চাহিদার পুরো গ্যাস আমদানি করেই চালাতে হবে।

পরিসংখ্যান বলছে, দেশে মোট গ্যাস মজুতের পরিমাণ ৪০ ট্রিলিয়ন ঘনফুট (টিসিএফ)। এরমধ্যে উত্তোলনযোগ্য মজুতের পরিমাণ ৩০ টিসিএফ। এখন পর্যন্ত উত্তোলন করা হয়েছে ১৮ দশমিক ৫৩ টিসিএফ। অবশিষ্ট আছে ১১ দশমিক ৫২ টিসিএফ।

পেট্রোবাংলা সূত্র বলছে, এখন প্রতি বছর গড়ে এক টিসিএফ করে গ্যাস উত্তোলন হয়ে থাকে। অর্থাৎ অবশিষ্ট মজুদে আর ১০ বছর মতো চলবে। কিন্তু ক্রমান্বয়ে প্রতি বছরই গ্যাস উত্তোলন ক্ষমতা কমে আসবে। এতে করে শেষের বছরগুলাতে সংকট আরও প্রকট হবে। দেশীয় গ্যাসের উৎপাদন কমে আসলে আনুপাতিক হারে আমদানি বাড়াতে হবে।

কোন খনির কি অবস্থা

বাপেক্স-এর ৮টি গ্যাস ক্ষেত্রের মোট মজুত ১ দশমিক ৪৬ টিসিএফ থেকে ৪৭৩ বিসিএফ তোলা হয়েছে। অবশিষ্ট রয়েছে ৯৮৭ বিসিএফ।

খনিগুলোর মধ্যে বেগমগঞ্জে মজুত ৩৩ বিসিএফ এর মধ্যে তোলা হয়েছে ৬ বিসিএফ। অবশিষ্ট রয়েছে ২৬ বিসিএফ। শাহবাজপুরে ২৬১ বিসিএফ এর মধ্যে ৬৮ বিসিএফ তোলা হয়েছে। অবশিষ্ট মজুতের পরিমাণ ১৯২ বিসিএফ।

সেমুতাং-এ মজুত ৩১৮ টিসিএফ-এর মধ্যে ১৩ দশমিক ৭ তোলা হয়েছে, মজুত রয়েছে ৩০৪ বিসিএফ। ফেঞ্চুগঞ্জে ৩২৯ বিসিএফ মজুতের ১৬২ তোলা হয়েছে মজুত রয়েছে ১৬৬ বিসিএফ। সালদা নদীতে ২৭৫ টিসিএফ-এর মধ্যে ৯৫ দশমিক ১ তোলা হয়েছে বাকি রয়েছে ১৮০ বিসিএফ। শ্রিকাইলে ১৬১ বিসিএফ এরমধ্যে ১০৮ তোলা হয়েছে অবশিষ্ট  মজুত ৫৩ টিসিএফ। সুন্দলপুরে ৫০ দশমিক ৫ বিএসএফ এরমধ্যে ১৮ তোলা হয়েছে অবশিষ্ট রয়েছে ৩২ বিসিএফ। রূপগঞ্জে ৩৩ দশমিক ৬ বিসিএফ মজুত থাকলেও এখনও তোলার কাজ শুরু হয়নি।

বাংলাদেশ গ্যাস ফিল্ড কোম্পানির মোট মজুত ১২ দশমিক ২৫২ টিসিএফ, এরমধ্যে তোলা হয়েছে ৮ দশমিক ৭৬৮ টিসিএফ। বাকি রয়েছে ৩ দশমিক ৪৮৪ টিসিএফ।

খনিগুলোর মধ্যে মেঘনায় ১০১ বিসিএফ এর মধ্যে ৭৬ বিসিএফ তোলা হয়েছে। অবশিষ্ট রয়েছে ২৫ বিসিএফ। নরসিংদীতে ৩৪৫ এর মধ্যে ২২২ তোলার পর ১২৩ বিসিএফ অবশিষ্ট রয়েছে। কামতায় ৫০ বিসিএফ এরমধ্যে ২১ তোলা পর ২৯ বিসিএফ গ্যাস রয়েছে। হবিগঞ্জে দুই দশমিক ৭৮৭ টিসিএফ মধ্যে ২ দশমিক ৫৮৮ টিসিএফ তোলা হয়েছে। বাকি রয়েছে ১৯২ বিসিএফ। বাখরাবাদে ১ দশমিক ৩৮৭ টিসিএফ এরমধ্যে ৮৮৫ বিসিএফ তোলার পর ৫৪২ বিসিএফ বাকি রয়েছে। দেশের সব চাইতে বড় ক্ষেত্র তিতাসের ৭ দশমিক ৫৭২ টিসিএফ এর মধ্যে ৫ দশমিক ০১৫ টিসিএফ। অবশিষ্ট রয়েছে ২ দশমিক ৫৬৭ টিসিএফ।

শেভরন বাংলাদেশের তিন ক্ষেত্রের মোট মজুত ৯ দশমিক ৭৪২ টিসিএফ। উত্তোলন করা হয়েছে ৬ দশমিক ৪৫৩ টিসিএফ। বাকি রয়েছে ৩ দশমিক ২৮৯ টিসিএফ। শেভরনের বিবিয়ানাতে এখনও ২ টিসিএফ এর একটু বেশি, মৌলভীবাজারে ১৫৮ বিসিএফ এবং জালালাবাদে এক দশমিক ২৬ টিসিএফ মজুত অবশিষ্ট রয়েছে।

সিলেট গ্যাস ফিল্ডের মোট মজুতের পরিমাণ ৭ দশমিক ৩৩ টিসিএফ এরমধ্যে এক ১ দশমিক ৭৮৪ টিসিএফ তোলা হয়েছে। এখানের ৫টি খনিতে এখনও মজুত রয়েছে ৫ দশমিক ২৪৯ টিসিএফ। এখানের পাঁচটি খুন হচ্ছে কৈলাসটিলা, সিলেট, রশিদপুর, ছাতক এবং বিয়ানীবাজার।

এছাড়া বাংগুরাতে ১১৮ বিসিএফ, ফেনিতে ৬৭ বিসিএফ মজুত রয়েছে।

ক্রমান্বয়ে কমছে দেশীয় গ্যাসের উৎপাদন

পেট্রোবাংলা বলছে প্রতি মাসেই দেশে গ্যাসের উৎপাদন কমতে শুরু করেছে। খনিগুলো থেকে প্রতিমাসে দুই থেকে ৮ ভাগ হারে গ্যাসের উৎপাদন কমতে শুরু করেছে। এখন দৈনিক ১৫০০ মিলিয়ন ঘনফুট (এমএমসিএফডি) দেশীয় গ্যাস তোলা হচ্ছে। গত পাঁচ বছর আগেও দেশে প্রায় তিন হাজার মিলিয়ন ঘনফুট গ্যাস তোলা হতো। কিন্তু এখন তা কমতে কমতে অর্ধেকে নেমে এসেছে।

গত দশ বছরে দেশে বড় কোনও গ্যাসক্ষেত্র আবিষ্কৃত হয়নি। দ্বিতীয় ও তৃতীয় মাত্রার (টু ডি, থ্রি ডি) জরিপের ফলাফলে সাড়া জাগানো কোনও খবর আসেনি।

সংকট সামাল দেওয়ার পরিকল্পনা

আগামী কয়েক বছর দেশে যে গ্যাসের ঘাটতি হবে তার পুরোটা আমদানি করেই চালানোর উদ্যোগ নেওয়া হচ্ছে। সরকার মহেশখালীতে প্রতিদিন এক হাজার মিলিয়ন ঘনফুট গ্যাস সরবরাহের জন্য ভাসমান টার্মিনাল স্থাপন করেছে। পায়রাতেও এক হাজার মিলিয়ন ঘনফুট গ্যাস আমদানির জন্য টার্মিনাল করা হচ্ছে। কিন্তু এখন দেশে গ্যাসের চাহিদা রয়েছে সর্বোচ্চ প্রতিদিন তিন হাজার ৭০০ এমএমসিএফডি। ফলে পায়রা এবং মহেশখালীর টার্মিনালে সার্বক্ষণিক পুরোদমে আমদানি করা হলেও ঘাটতি থাকবে।

জ্বালানি সচিব মো. আনিছুর রহমান সাম্প্রতিক একটি সেমিনারে বলেন, আমরা গ্যাস অনুসন্ধানে নজর দিচ্ছি। তিনি বলেন, বিশেষজ্ঞরা বলছেন হাইপ্রেসার জোনে কাজ করতে। কিন্তু সেখানে কাজ করা যায় কি না দেখা হচ্ছে। এজন্য নতুন প্রযুক্তি খোঁজা হচ্ছে। প্রয়োজনে বাপেক্সের সঙ্গে যৌথ উদ্যোগে কাজ করা যায় কি না তা দেখা হচ্ছে।

বিশেষজ্ঞ মতামত

জ্বালানি বিশেষজ্ঞ অধ্যাপক ম তামিম বলেন, সরকারের উচিত হবে খুব দ্রুত সংকট সামাল দেওয়ার উদ্যোগ নেওয়া। নাহলে হুট করেই এমন সংকট সৃষ্টি হবে যা সামাল দেওয়া কঠিন হয়ে উঠবে। তিনি বলেন, দেশে বেশি বেশি অনুসন্ধান কাজ চালানোর পাশাপাশি বিদেশ থেকে আমদানির একটি সুষ্ঠু পরিকল্পনা হাতে নিতে হবে।

 

/এমআর/

সম্পর্কিত

সঞ্চয়পত্রের মুনাফার হার কমলো

সঞ্চয়পত্রের মুনাফার হার কমলো

৪২ ধরনের পণ্য রফতানিতে মিলবে নগদ সহায়তা

৪২ ধরনের পণ্য রফতানিতে মিলবে নগদ সহায়তা

পণ্য রফতানিতে রাশিয়ার সহযোগিতা চেয়েছে বাংলাদেশ

পণ্য রফতানিতে রাশিয়ার সহযোগিতা চেয়েছে বাংলাদেশ

‘পুঁজিবাজার স্থিতিশীলতা তহবিলে’ আরও ১০০ কোটি টাকা

‘পুঁজিবাজার স্থিতিশীলতা তহবিলে’ আরও ১০০ কোটি টাকা

চার টেক জায়ান্ট ভ্যাট দিলো পৌনে ৮ কোটি টাকা 

আপডেট : ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৬:৪৮

বিশ্বের জনপ্রিয় প্রযুক্তিনির্ভর কোম্পানি গুগল, ফেসবুক, অ্যামাজন ও মাইক্রোসফট বাংলাদেশে মোট ৭ কোটি ৮৩ লাখ ৭৩ হাজার ৪৬০ টাকার মূল্য সংযোজন কর (মূসক) বা ভ্যাট জমা দিয়েছে। এদের মধ্যে মাইক্রোসফট এই প্রথমবারের মতো ভ্যাট দিলো।

গুগল, ফেসবুক ও অ্যামাজন আগস্ট মাস হিসাবে ৪ কোটি ৬০ লাখ ৭৩ হাজার ৪৬০ টাকা এবং মাইক্রোসফট করপোরেশন জুন, জুলাই ও আগস্ট মাসের মোট ৩ কোটি ২৩ টাকার ভ্যাট জমা দিয়েছে।

মঙ্গলবার (২১ সেপ্টেম্বর) ঢাকা দক্ষিণের কাস্টমস, এক্সাইজ ও ভ্যাট কমিশনারেটের কমিশনার এস এম হুমায়ূন কবীর এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

জানা যায়, আগস্ট মাসে জনপ্রিয় সার্চ ইঞ্জিন গুগল ১ কোটি ৭ লাখ টাকা, আমাজন ওয়েব সার্ভিসেস ৩৪ লাখ ৭ হাজার এবং ফেসবুকের তিনটি কোম্পানির নামে মোট ২ কোটি ৫৬ লাখ টাকার ভ্যাট জমা দেখিয়েছে তাদের ভ্যাট রিটার্নে।

ফেসবুকের তিন প্রতিষ্ঠানের মধ্যে ফেসবুক আয়ারল্যান্ড লিমিটেড ২ কোটি ৫৫ লাখ ৯১ হাজার ৬৪৩ টাকা, ফেসবুক পেমেন্টস ইন্টারন্যাশনাল লিমিটেড ২৫ হাজার ৭০৯ টাকা ও ফেসবুক টেকনোলজিস আয়ারল্যান্ড লিমিটেড ১৬ হাজার ৬৫ টাকার ভ্যাট জমা দিয়েছে।

অন্যদিকে, অপর জায়ান্ট মাইক্রোসফট রিজিওনাল সেলস প্রাইভেট লিমিটেড নামে ভ্যাট নিবন্ধন নিয়ে প্রথমবারের মতো ৩ কোটি ২৩ লাখ টাকা ভ্যাট জমা দিয়েছে।

এর আগে বাংলাদেশে ব্যবসা করে এমন নিবন্ধিত অনাবাসী প্রতিষ্ঠান হিসেবে ভ্যাট পরিশোধ ও ভ্যাট রিটার্ন জমা দেওয়াসহ সরাসরি ভ্যাট সংক্রান্ত সেবা পেতে গুগল গত ২৩ মে, আমাজন ২৭ মে এবং ফেসবুক ১৩ জুন বিজনেস আইডেন্টিফিকেশন নম্বর (বিআইএন) নেয়।

/জিএম/এমএস/

সম্পর্কিত

অনলাইনে ভ্যাট দিতে চায় ফেসবুক

অনলাইনে ভ্যাট দিতে চায় ফেসবুক

দেশে ফেসবুকনির্ভর উদ্যোক্তা ৫০ হাজার: সিপিডি

দেশে ফেসবুকনির্ভর উদ্যোক্তা ৫০ হাজার: সিপিডি

ভ্যাট নিবন্ধন নিলো ফেসবুক

ভ্যাট নিবন্ধন নিলো ফেসবুক

আগেও ভ্যাট দিতো গুগল-আমাজন, নিবন্ধিত হওয়ায় যা জানা যাবে

আগেও ভ্যাট দিতো গুগল-আমাজন, নিবন্ধিত হওয়ায় যা জানা যাবে

সম্পর্কিত

চোরাই গার্মেন্ট পণ্য রাখতে গোডাউন ভাড়া!

চোরাই গার্মেন্ট পণ্য রাখতে গোডাউন ভাড়া!

৫ লাখ ৭৭ হাজার ডোজ টিকা দেওয়া হলো আজ

৫ লাখ ৭৭ হাজার ডোজ টিকা দেওয়া হলো আজ

বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্রের রাস্তা সম্প্রসারণে দক্ষিণ সিটির উচ্ছেদ অভিযান

বিশ্বসাহিত্য কেন্দ্রের রাস্তা সম্প্রসারণে দক্ষিণ সিটির উচ্ছেদ অভিযান

শিশু তানিয়া ধর্ষণ ও হত্যা মামলায় ২ জনের মৃত্যুদণ্ডাদেশ বহাল

শিশু তানিয়া ধর্ষণ ও হত্যা মামলায় ২ জনের মৃত্যুদণ্ডাদেশ বহাল

ঢাকা-নিউ ইয়র্ক রুটে আবার ফ্লাইট শুরু করবে বিমান: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

ঢাকা-নিউ ইয়র্ক রুটে আবার ফ্লাইট শুরু করবে বিমান: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

আওয়ামী লীগ বিদ্রোহী চায় না, বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতাও নয়

ইউপি নির্বাচনআওয়ামী লীগ বিদ্রোহী চায় না, বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতাও নয়

পৃথক দুই মামলায় হেলেনা জাহাঙ্গীরের জামিন

পৃথক দুই মামলায় হেলেনা জাহাঙ্গীরের জামিন

জাতিসংঘের এসডিজি অগ্রগতি পুরস্কার পেলেন প্রধানমন্ত্রী

জাতিসংঘের এসডিজি অগ্রগতি পুরস্কার পেলেন প্রধানমন্ত্রী

সর্বশেষ

৭১ লাখ ফাইজার টিকা দেবে যুক্তরাষ্ট্র

৭১ লাখ ফাইজার টিকা দেবে যুক্তরাষ্ট্র

পানিতে ডুবে শিশুমৃত্যু, নেপথ্যে ‘নজরদারির অভাব’

গবেষণাপানিতে ডুবে শিশুমৃত্যু, নেপথ্যে ‘নজরদারির অভাব’

মেসির জন্য আরও দুঃসংবাদ

মেসির জন্য আরও দুঃসংবাদ

ত্যাগীর ম্যাজিকে রাজস্থানের শ্বাসরুদ্ধকর জয়

ত্যাগীর ম্যাজিকে রাজস্থানের শ্বাসরুদ্ধকর জয়

মুক্তির জন্য প্রস্তুত প্রথম পূর্ণদৈর্ঘ্য অ্যানিমেশন সিনেমা

মুক্তির জন্য প্রস্তুত প্রথম পূর্ণদৈর্ঘ্য অ্যানিমেশন সিনেমা

চীন, রাশিয়া ও পাকিস্তানের কূটনীতিকদের সঙ্গে বৈঠক আফগান প্রধানমন্ত্রীর

চীন, রাশিয়া ও পাকিস্তানের কূটনীতিকদের সঙ্গে বৈঠক আফগান প্রধানমন্ত্রীর

ইরানের বিপক্ষে বাংলাদেশের ‘অভিজ্ঞতা অর্জনের ম্যাচ’

ইরানের বিপক্ষে বাংলাদেশের ‘অভিজ্ঞতা অর্জনের ম্যাচ’

বিসিবি নির্বাচন ৬ অক্টোবর

বিসিবি নির্বাচন ৬ অক্টোবর

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

শতভাগ গ্যাস আমদানির দিকে ঝুঁকছে দেশ

শতভাগ গ্যাস আমদানির দিকে ঝুঁকছে দেশ

সঞ্চয়পত্রের মুনাফার হার কমলো

সঞ্চয়পত্রের মুনাফার হার কমলো

পদত্যাগ করলেন সাউথ বাংলা ব্যাংকের চেয়ারম্যান

পদত্যাগ করলেন সাউথ বাংলা ব্যাংকের চেয়ারম্যান

৪২ ধরনের পণ্য রফতানিতে মিলবে নগদ সহায়তা

৪২ ধরনের পণ্য রফতানিতে মিলবে নগদ সহায়তা

পণ্য রফতানিতে রাশিয়ার সহযোগিতা চেয়েছে বাংলাদেশ

পণ্য রফতানিতে রাশিয়ার সহযোগিতা চেয়েছে বাংলাদেশ

© 2021 Bangla Tribune