X
শুক্রবার, ২৫ জুন ২০২১, ১১ আষাঢ় ১৪২৮

সেকশনস

যানজট ঠেলে শপিং মলে ক্রেতাদের ভিড়, উপেক্ষিত বিধিনিষেধ

আপডেট : ০৭ মে ২০২১, ২৩:৩৩

একদিকে করোনা সংক্রমণ রোধে লকডাউন অন্যদিকে সাপ্তাহিক ছুটি শুক্রবার। দেশে যে করোনার দ্বিতীয় ঢেউ চলছে, প্রতিদিন আক্রান্ত হচ্ছে হাজার মানুষ- এদিকে যেনো কারও ভ্রূক্ষেপ নেই। সরকার নির্দেশিত বিধিনিষেধ উপেক্ষা করেই ঈদের আগে শেষ মুহূর্তের কেনাকাটায় শপিং মলগুলোতে ভিড় জমাচ্ছেন ক্রেতারা। শপিং মলগুলোতে যারা এসেছেন তাদের মধ্যে অনেকে স্বাস্থ্যবিধি মানলেও মাস্ক ছাড়া ঘোরাফেরা করতে দেখা গেছে অনেক ক্রেতাদের। প্রচণ্ড গরমের দোহাই দিয়ে মাস্ক না পরার বিষয়টি জায়েজ করার চেষ্টা তাদের। এছাড়া বিক্রেতারাও স্বাস্থ্যবিধি না মেনে দোকানগুলোতে ক্রেতাদের বিভিন্ন পণ্য দেখাচ্ছেন।

শুক্রবার (৭ মে) রাজধানীর বেশ কয়েকটি শপিং মল ও মার্কেট ঘুরে দেখা গেছে, সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত শপিং মলগুলোতে ছিলো ক্রেতাদের আনাগোনা। ঈদ উপলক্ষে নিজেদের পছন্দের পণ্যটি কিনে নিতে ছুটছেন এক দোকান থেকে অন্য দোকানে। অনেকেই এসেছেন পরিবারের সদস্যদের নিয়ে, এমনকি অনেকে ছোট বাচ্চাদের নিয়েও শপিং মলে এসেছেন। তাদের দেখে বোঝার উপায় নেই দেশে করোনা সংক্রমণ নিয়ে কোন ভীতি কাজ করছে।

কসমেটিকসের দোকান থেকে শুরু করে শাড়ি কাপড়ের দোকান- সবগুলোতে ছিল ক্রেতাদের ভিড়। এছাড়া ফুটপাতের দোকানগুলোতে ক্রেতাদের আনাগোনা ছিলো চোখে পড়ার মত।

মার্কেটে আসা ক্রেতাদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, আজ সাপ্তাহিক ছুটি তাই কেনাকাটা করতে বের হয়েছেন। করোনা শঙ্কা থাকলেও সেটার কেয়ার করছেন না তারা।

শুক্রবার দুপুরে রাজধানীর নিউ সুপার মার্কেট ও গাউছিয়া মার্কেটে সরেজমিন ঘুরে দেখা গেছে, এককথায় ক্রেতাদের উপচে পড়া ভিড়। লোকে লোকারণ্য বিভিন্ন দোকান। গায়ের সঙ্গে গা লাগিয়ে, ধাক্কাধাক্কি করে চলতে হচ্ছে। আর ফুট ওভারব্রিজগুলোতে ওঠানামায় ছিল ব্যাপক ভিড়।

সরকার যখন সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে চলার জন্য নির্দেশনা দিয়েছে ঠিক তার উল্টো চিত্র রাজধানীর নিউ মার্কেট গাউছিয়াসহ বিভিন্ন শপিং মলগুলোতে। এছাড়াও চোখে পড়েনি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কোন নজরদারি।

মিরপুর শপিং কমপ্লেক্স ব্যবসায়ী সমিতির কোষাধ্যক্ষ রুহুল আমিন দাবি করেন, সমিতির প্রতিনিধিরা মার্কেটের ভবনগুলোতে নজরদারি রাখছে স্বাস্থ্যবিধির বিষয়ে। কিন্তু প্রায় ঘণ্টাখানেক মার্কেটে বিভিন্ন ফ্লোর ঘুরে পর্যবেক্ষণ করলেও দেখা মেলেনি সে ধরনের কোনো কার্যক্রম। বিক্রেতাদের মধ্যে অনেকেরই মাস্ক ছিল না। এতে কর্তৃপক্ষের দেওয়া তথ্যের সঙ্গে বাস্তবের কোন মিল পাওয়া যায়নি।

শ্যামলী স্কয়ার শপিং মল দোকান মালিক সমবায় সমিতি কোষাধ্যক্ষ তৈয়ব আলী বলেন, স্বাস্থ্যবিধি মানার জন্য সরকারি নির্দেশনা মোতাবেক মার্কেটে ঢোকার সময় জীবাণুনাশক স্প্রে দিয়ে সবাইকে ঢুকতে দেয়া হচ্ছে। কিন্তু বাস্তব চিত্র দেখা গেছে উল্টো। মাস্ক ছাড়া অনেকেই মার্কেটের ভেতরে ঘোরাফেরা করছেন। বিভিন্ন ফ্লোর ঘুরে দেখা গেছে, ক্রেতাদের আনাগোনা রয়েছে। তবে স্বাস্থ্যবিধি মানার বিষয়ে কিংবা মাস্ক পরার বিষয়টি নজরদারির জন্য মার্কেট কর্তৃপক্ষের কোনো তৎপরতা পরিলক্ষিত হয়নি।

রাজধানীর মিরপুর এক নম্বরের মুক্তিযোদ্ধা মার্কেট ঘুরে দেখা গেছে, ক্রেতাদের ভিড় রয়েছে দোকানে দোকানে। স্বাস্থ্যবিধি মানার বিষয়ে কারও মধ্যে কোন সচেতনতা নেই। ক্রেতা কিংবা দোকানমালিক- সবাই স্বাস্থ্যবিধি মানার বিষয়ে উদাসীন।

এদিকে মুক্তিযোদ্ধা সুপার মার্কেটের সাধারণ সম্পাদক আমিন মোল্লাও নিজেদের তৎপরতার বিষয়টি এড়িয়ে গিয়ে ক্রেতাদের ওপর দায় চাপানোর চেষ্টা করেন। বলেন, মার্কেটে ঢোকার সময় স্যানিটাইজার’র ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। কিন্তু সরেজমিন ঘুরে এর কোনো সত্যতা পাওয়া যায়নি। তবে মার্কেটের সামনে বেশ কয়েকজন পুলিশ সদস্যকে টহলরত অবস্থায় থাকতে দেখা যায়।

যেমন ছিল রাজধানীর সড়কের অবস্থা

সাপ্তাহিক ছুটির কারণে রাজধানীতে যাত্রী তুলনামূলকভাবে কিছুটা ছিল কম। তবে যারা ছিল তাদের গন্তব্য বিভিন্ন শপিং সেন্টারগুলোকে কেন্দ্র করে। গণপরিবহন চালু হওয়ায় অনেকে নিজেদের সুবিধামত জায়গায় কেনাকাটা করতে যেতে পেরেছেন। যেখানে সিএনজি দিয়ে যেতে হতো, গণপরিবহন চালু হওয়ায় করোনা ঝুঁকির মধ্যেও বাসে চড়ে পরিবারের সদস্যদের নিয়ে শপিং মলে যেতে দেখা গেছে অনেককে। তবে বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে যাত্রীদের আনাগোনাও কিছুটা বেড়েছে। এছাড়া বিভিন্ন শপিং সেন্টারগুলোর সামনে সৃষ্টি হয় যানজটের।

নিউ মার্কেটে শপিং করতে আসা আলাউদ্দিন মিয়া বলেন, করোনা শঙ্কা থাকলেও পরিবারের সদস্যদের নিয়ে গণপরিবহনে শপিং মলে এসেছি। বাকিটা আল্লাহ ভরসা। আর যতটুকু সম্ভব স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার চেষ্টা করছি।

এদিকে ইউনুস আলী নামে এক ব্যক্তি বলেন, মিরপুর থেকে নিউ মার্কেট আসতে বেশ কয়েকবার যানজটে পড়তে হয়েছে। ভেবেছিলাম ফাঁকা পাবো রাস্তা কিন্তু শুক্রবারেও যানজটে পড়ে থাকতে হয়েছে।

 

/আরটি/এনএইচ/

সম্পর্কিত

‘বিচ্ছিন্ন ঢাকা’ থেকে বের হচ্ছে মানুষ (ফটোস্টোরি)

‘বিচ্ছিন্ন ঢাকা’ থেকে বের হচ্ছে মানুষ (ফটোস্টোরি)

ফকিরাপুলে মেস থেকে যুবকের ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধার

ফকিরাপুলে মেস থেকে যুবকের ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধার

মাদকাসক্তদের ৮০ ভাগই কিশোর

মাদকাসক্তদের ৮০ ভাগই কিশোর

রাজধানীতে মানুষ ঢুকছে, বেরও হচ্ছে

রাজধানীতে মানুষ ঢুকছে, বেরও হচ্ছে

দেবরের পুরুষাঙ্গ কর্তন: গৃহবধূর বিরুদ্ধে চার্জশিট

দেবরের পুরুষাঙ্গ কর্তন: গৃহবধূর বিরুদ্ধে চার্জশিট

ঘাটারচর-কাঁচপুর রুটে সেপ্টেম্বর থেকে বাস চলবে কোম্পানির মাধ্যমে : তাপস

ঘাটারচর-কাঁচপুর রুটে সেপ্টেম্বর থেকে বাস চলবে কোম্পানির মাধ্যমে : তাপস

‘পুলিশ ম্যানেজ করা আছে, রংপুর-বগুড়া যেখানেই যান ১৫০০ টাকা’

‘পুলিশ ম্যানেজ করা আছে, রংপুর-বগুড়া যেখানেই যান ১৫০০ টাকা’

দূরপাল্লার বাস ছাড়া সবই চলে ঢাকা-সাইনবোর্ড সড়কে

দূরপাল্লার বাস ছাড়া সবই চলে ঢাকা-সাইনবোর্ড সড়কে

তৃতীয় দিনের মতো বন্ধ দূরপাল্লার গণপরিবহন

তৃতীয় দিনের মতো বন্ধ দূরপাল্লার গণপরিবহন

চেকপোস্ট ঠেকাচ্ছে গাড়ি, হেঁটে যাতায়াত করছে মানুষ

চেকপোস্ট ঠেকাচ্ছে গাড়ি, হেঁটে যাতায়াত করছে মানুষ

নর্দমার পানি খালে নিতে নতুন নকশা করবে ডিএসসিসি: শেখ তাপস

নর্দমার পানি খালে নিতে নতুন নকশা করবে ডিএসসিসি: শেখ তাপস

মোহাম্মদপুরে রিকশাচালকের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

মোহাম্মদপুরে রিকশাচালকের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

সর্বশেষ

বেলারুশের সেই সাংবাদিক এখন গৃহবন্দি

বেলারুশের সেই সাংবাদিক এখন গৃহবন্দি

দাঁড়ানো ট্রাকের পেছনে মোটরসাইকেলের ধাক্কায় ২ আনসার সদস্য নিহত

দাঁড়ানো ট্রাকের পেছনে মোটরসাইকেলের ধাক্কায় ২ আনসার সদস্য নিহত

টিকা নেওয়া মানুষেরা ডেল্টা ভ্যারিয়েন্টে আক্রান্ত হচ্ছেন: ইসরায়েল

টিকা নেওয়া মানুষেরা ডেল্টা ভ্যারিয়েন্টে আক্রান্ত হচ্ছেন: ইসরায়েল

২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ১০৮ জনের

২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ১০৮ জনের

এইচএসসির ফরম পূরণ ২৯ জুন থেকে শুরু

এইচএসসির ফরম পূরণ ২৯ জুন থেকে শুরু

বাক-বুদ্ধি প্রতিবন্ধীকে বাড়িতে ডেকে ধর্ষণের অভিযোগে গ্রেফতার ১

বাক-বুদ্ধি প্রতিবন্ধীকে বাড়িতে ডেকে ধর্ষণের অভিযোগে গ্রেফতার ১

চীনের মার্শাল আর্ট স্কুলে অগ্নিকাণ্ডে নিহত ১৮, বেশিরভাগই শিশু

চীনের মার্শাল আর্ট স্কুলে অগ্নিকাণ্ডে নিহত ১৮, বেশিরভাগই শিশু

বাংলাদেশে ভালো খেললে জায়গা মিলবে অস্ট্রেলিয়ার বিশ্বকাপ দলে

বাংলাদেশে ভালো খেললে জায়গা মিলবে অস্ট্রেলিয়ার বিশ্বকাপ দলে

জাসদের নেতা-কর্মীরা দুর্নীতির বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াচ্ছে: শিরিন আখতার

জাসদের নেতা-কর্মীরা দুর্নীতির বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াচ্ছে: শিরিন আখতার

স্থিতিশীল বঙ্গোপসাগর-ভারত মহাসাগর দেখতে চায় বাংলাদেশ

স্থিতিশীল বঙ্গোপসাগর-ভারত মহাসাগর দেখতে চায় বাংলাদেশ

দুর্যোগ মোকাবিলায় সমন্বিত উদ্যোগ নেওয়ার আহ্বান সিপিবির

দুর্যোগ মোকাবিলায় সমন্বিত উদ্যোগ নেওয়ার আহ্বান সিপিবির

মিয়ামির ধ্বংসস্তূপে শোনা যাচ্ছে জীবনের আর্তনাদ

মিয়ামির ধ্বংসস্তূপে শোনা যাচ্ছে জীবনের আর্তনাদ

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

‘বিচ্ছিন্ন ঢাকা’ থেকে বের হচ্ছে মানুষ (ফটোস্টোরি)

‘বিচ্ছিন্ন ঢাকা’ থেকে বের হচ্ছে মানুষ (ফটোস্টোরি)

ফকিরাপুলে মেস থেকে যুবকের ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধার

ফকিরাপুলে মেস থেকে যুবকের ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধার

মাদকাসক্তদের ৮০ ভাগই কিশোর

মাদকাসক্তদের ৮০ ভাগই কিশোর

রাজধানীতে মানুষ ঢুকছে, বেরও হচ্ছে

রাজধানীতে মানুষ ঢুকছে, বেরও হচ্ছে

দেবরের পুরুষাঙ্গ কর্তন: গৃহবধূর বিরুদ্ধে চার্জশিট

দেবরের পুরুষাঙ্গ কর্তন: গৃহবধূর বিরুদ্ধে চার্জশিট

ঘাটারচর-কাঁচপুর রুটে সেপ্টেম্বর থেকে বাস চলবে কোম্পানির মাধ্যমে : তাপস

ঘাটারচর-কাঁচপুর রুটে সেপ্টেম্বর থেকে বাস চলবে কোম্পানির মাধ্যমে : তাপস

‘পুলিশ ম্যানেজ করা আছে, রংপুর-বগুড়া যেখানেই যান ১৫০০ টাকা’

‘পুলিশ ম্যানেজ করা আছে, রংপুর-বগুড়া যেখানেই যান ১৫০০ টাকা’

দূরপাল্লার বাস ছাড়া সবই চলে ঢাকা-সাইনবোর্ড সড়কে

দূরপাল্লার বাস ছাড়া সবই চলে ঢাকা-সাইনবোর্ড সড়কে

তৃতীয় দিনের মতো বন্ধ দূরপাল্লার গণপরিবহন

তৃতীয় দিনের মতো বন্ধ দূরপাল্লার গণপরিবহন

চেকপোস্ট ঠেকাচ্ছে গাড়ি, হেঁটে যাতায়াত করছে মানুষ

চেকপোস্ট ঠেকাচ্ছে গাড়ি, হেঁটে যাতায়াত করছে মানুষ

© 2021 Bangla Tribune