X
বুধবার, ২৩ জুন ২০২১, ৮ আষাঢ় ১৪২৮

সেকশনস

ব্যক্তি নয়, রাষ্ট্রায়ত্ত শিল্প ও সমবায় সংস্থাকে লাইসেন্স দেওয়ার সিদ্ধান্ত

আপডেট : ০৮ মে ২০২১, ০৮:০০

(বিভিন্ন সংবাদপত্রে প্রকাশিত তথ্যের ভিত্তিতে বঙ্গবন্ধুর সরকারি কর্মকাণ্ড ও তার শাসনামল নিয়ে মুজিববর্ষ উপলক্ষে ধারাবাহিক প্রতিবেদন প্রকাশ করছে বাংলা ট্রিবিউন। আজ পড়ুন ১৯৭৩ সালের ৮ মে’র ঘটনা।)

সরকার ব্যক্তি পর্যায়ের পরিবর্তে রাষ্ট্রায়ত্ত শিল্প ও সমবায় সংস্থাগুলোকে পারমিট ও লাইসেন্স প্রদানের সিদ্ধান্ত নেয়। ১৯৭৩ সালের এইদিনে সমবায়মন্ত্রী মতিউর রহমান এ কথা বলেন।

রংপুরের স্থানীয় আওয়ামী লীগ কর্মী সম্মেলনে ভাষণ দেওয়ার সময় এ মর্মে হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে তিনি বলেন, যেসব লোক জনসাধারণের দুর্দশা পুঁজি করে সুযোগ লুটছে, জনগণ কোনদিনই তাদের ক্ষমা করবে না। সমাজে তাদের মর্যাদা যা-ই হোক না কেন।

মতিউর রহমান আরও বলেন, জনগণকে শোষণ করতে একদা যারা অগাধ ধন-দৌলত সঞ্চার করেছিল তারা আজ কোথায় হারিয়ে গেছে? সেসব ধন-দৌলত ভোগ করতে ব্যর্থ হয়েছে তারা। জনগণের দুর্দশাকে পুঁজি করে যেসব রাজনৈতিক টাউটরা অর্থ লুটছে সরকার তাদের সব ফাঁস করে দেবে। এসব ব্যক্তি বঙ্গবন্ধুর প্রভাব তথা তার পার্টি ও তার সরকারকে হেয় প্রতিপন্ন করতে উদ্যোগী হয়েছে।

. পাকিস্তানে বাঙালি দমন বন্ধ করতে আলেমের বিবৃতি

বাংলাদেশের ১১১ জন বিশিষ্ট আলেম পাকিস্তানে আটক নিরীহ বাঙালিদের ওপর নির্যাতন ও বিচার বন্ধ করার ব্যাপারে পাকিস্তানি শাসকের ওপর প্রভাব বিস্তারের জন্য পাকিস্তান সম্প্রদায়ের প্রতি আহ্বান জানান। এর কয়েকদিন আগে পাকিস্তানে আটকে পড়া বাঙালিদের আস্তানায় হানা দিয়ে শতাধিক গ্রেফতারের খবর প্রকাশ হয়।

ছাত্রলীগ-ছাত্র ইউনিয়নের প্রতিবাদ সভা

এইদিন বিকালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বটতলায় বাংলাদেশ ছাত্রলীগ ও বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়নের যৌথ উদ্যোগে পাকিস্তানে আটক বাঙালিদের ওপর পাকিস্তানি শাসকচক্রের নির্যাতনের প্রতিবাদে এক সভার আয়োজন করা হয়। সভায় উল্লেখ করা হয়, বাংলাদেশকে ব্ল্যাকমেইল করার উদ্দেশ্যেই পাকিস্তান সরকার আটক বাঙালিদের ওপর নির্যাতন চালাচ্ছে।

এনার খবরে বলা হয়, প্রতিবাদ সভায় অবিলম্বে আটক বাঙালিদের ওপর নির্যাতন বন্ধ এবং ভারত-বাংলাদেশ যুক্ত ঘোষণা বাস্তবায়নের দাবি জানানো হয়। সভায় নির্যাতন বন্ধ করা এবং বাঙালিদের স্বদেশে ফিরিয়ে আনার ব্যাপারে পাকিস্তানি শাসকচক্রের ওপর চাপ সৃষ্টি করার জন্য বিশ্বের শান্তিকামী জনগণের প্রতি আহ্বান জানানো হয়।

. বাংলাদেশের বিরুদ্ধে পাকিস্তানি ষড়যন্ত্র

পাকিস্তান বাংলাদেশের বিরুদ্ধে একটি সুপরিকল্পিত ষড়যন্ত্রের জাল ব্যাপকভাবে বিস্তারের কাজে লিপ্ত আছে বলে কূটনৈতিক মহল আশঙ্কা প্রকাশ করে। স্বাধীনতার পরপরই কোনও বিদেশি শক্তির প্রত্যক্ষ সাহায্যে পাকিস্তান বাংলাদেশের ওপর হামলা চালানোর পরিকল্পনা করছিল। কিন্তু ওই সময়ের মধ্যেই বিশ্বের প্রায় ৫০টি রাষ্ট্র বাংলাদেশকে স্বীকৃতি প্রদান করায় পাকিস্তান ধারণা করতে পারে যে, পরিস্থিতি তাদের প্রতিকূলে চলে গেছে। এরপর পাকিস্তান প্রত্যক্ষ হামলায় লিপ্ত না হয়ে দীর্ঘমেয়াদী ভিত্তিতে পরোক্ষ হামলার পরিকল্পনা গ্রহণ করে। এই পরিকল্পনা বাস্তবায়নের প্রাথমিক পদক্ষেপ হিসেবে পাকিস্তান কতিপয় দেশে মিশন প্রেরণ করে। এ ছাড়া কেন্দ্রীয় চুক্তি সংস্থাকেও সুদৃঢ় করার প্রয়াস পায়।

লেবাননে সামরিক সরকার

লেবাননে এইদিনে সামরিক সরকার গঠন করা হয়। প্রেসিডেন্ট সোলায়মান ফ্রেঙ্গি সেনাবাহিনীর অধিনায়ক জেনারেল ঘানেমের নেতৃত্বে সামরিক সরকার গঠন করেন। বৈরুত ও লেবাননের অন্যত্র ফিলিস্তিনি গেরিলা এবং লেবানন সেনাবাহিনীর মধ্যে প্রচণ্ড লড়াই শুরু হয়। সিরিয়ার এক সরকারি বিবৃতিতে অভিযোগ করা হয়, লেবানন কর্তৃপক্ষ কোনও একটি বিদেশি শক্তির পরামর্শে ফিলিস্তিনি গেরিলাদের ওপর বিশ্বাসঘাতকের মতো হামলা চালিয়েছে। দামেস্কের পর্যবেক্ষক মহল মনে করেন, লেবাননে সংঘর্ষ অব্যাহত থাকলে সিরিয়া ফিলিস্তিনি গেরিলাদের পক্ষ নিয়ে সংঘর্ষে নামতে পারে। লন্ডনের ওয়াকিবহাল মহল এই সংঘর্ষে সিরিয়ার হস্তক্ষেপের সম্ভাবনার জন্য উদ্বেগ প্রকাশ করে।

এদিকে দামেস্কে ফিলিস্তিনি ও বেতারের এক ঘোষণায় বলা হয়, লেবাননের প্রেসিডেন্ট সোলাইমান ফ্রেঙ্গি সেখানকার সেনাবাহিনীর অধিনায়ক জেনারেল ঘানেমের নেতৃত্বে লেবাননে সামরিক সরকার গঠন করে। লেবাননের সরকারি বাহিনী এবং ফিলিস্তিনের গেরিলাদের মধ্যে সংঘর্ষের ফলে উদ্ভূত পরিস্থিতি নিয়ে লেবানন সরকারের এক জরুরি বৈঠকের পর প্রধানমন্ত্রী আমিন হাফিজ পদত্যাগ করেন।

. ত্রিদিব রায়

মাত্র দুই-তিনদিন আগে পাকিস্তান ত্রিদিব রায়কে বার্মায় রাষ্ট্রদূত হিসেবে নিযুক্ত করে। অভিজ্ঞমহল অভিমত প্রকাশ করেছেন যে, ত্রিদিব রায়কে বার্মার রাষ্ট্রদূত নিযুক্তির পেছনে ষড়যন্ত্র আছে। উক্ত মহল আশঙ্কা প্রকাশ করেছে যে, পার্বত্য চট্টগ্রামের উপজাতি অধিবাসীদের ওপর পরোক্ষভাবে, কিংবা সম্ভব হলে প্রত্যক্ষভাবে কোনও প্রভাব সৃষ্টি করা যায় কিনা সেই প্রচেষ্টা চালাবার জন্য পার্বত্য চট্টগ্রামের চাকমাদের সাবেক রাজা ত্রিদিব রায়কে রাষ্ট্রদূত নিযুক্ত করা হয়েছে।

ঢাকায় গ্রেফতার

এইদিনে রাত দশটায় টয়েনবি সার্কুলার রোডের এক বোর্ডিং হতে একটি পিস্তলের কার্তুজ ও ভুট্টোর একটি চিঠি ও অন্যান্য দলিলসহ পাঁচ ব্যক্তিকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃতরা হচ্ছেন- হাফিজুর রহমান, আব্দুল হাকিম মাস্টার, হাফেজ আহমেদ। অপর দুই ব্যক্তির নাম জানা যায়নি। হাফিজুর রহমান পরে পুলিশের কাছে নিজেকে মুসলিম বাংলার কমান্ডার হাবিব খান বলে পরিচয় দেন।

 

 

/এফএ/

সম্পর্কিত

ভিক্ষুক জাতির কোনও মর্যাদা নেই: বঙ্গবন্ধু

ভিক্ষুক জাতির কোনও মর্যাদা নেই: বঙ্গবন্ধু

আলোচনার জন্য পাকিস্তানের কাছে ভারতের চিঠি

আলোচনার জন্য পাকিস্তানের কাছে ভারতের চিঠি

দ্রুত ত্রাণ বিতরণের নির্দেশ দিলেন বঙ্গবন্ধু

দ্রুত ত্রাণ বিতরণের নির্দেশ দিলেন বঙ্গবন্ধু

নারীদের চাকরিতে সমান সুযোগ দিতে বঙ্গবন্ধুর নির্দেশ

নারীদের চাকরিতে সমান সুযোগ দিতে বঙ্গবন্ধুর নির্দেশ

ঢাকা-কায়রো যুক্ত ঘোষণা

ঢাকা-কায়রো যুক্ত ঘোষণা

বঙ্গবন্ধুর রচিত বই জাতির ঐতিহাসিক দলিল: পর্যটন প্রতিমন্ত্রী

বঙ্গবন্ধুর রচিত বই জাতির ঐতিহাসিক দলিল: পর্যটন প্রতিমন্ত্রী

দুষ্কৃতিকারীদের রেহাই নেই: বঙ্গবন্ধু

দুষ্কৃতিকারীদের রেহাই নেই: বঙ্গবন্ধু

যুদ্ধাপরাধীদের বিচারে বিশেষ অগ্রগতি

যুদ্ধাপরাধীদের বিচারে বিশেষ অগ্রগতি

বরখাস্ত ব্যক্তিদের চাকরি ফেরাতে যথেষ্ট যাচাই হয়েছে: বঙ্গবন্ধু

বরখাস্ত ব্যক্তিদের চাকরি ফেরাতে যথেষ্ট যাচাই হয়েছে: বঙ্গবন্ধু

উন্নয়ন ও পুনর্গঠনের বাজেট ঘোষণা

উন্নয়ন ও পুনর্গঠনের বাজেট ঘোষণা

বিদ্যুৎ বিল পরিশোধ ও বেআইনি দখল ছাড়তে বঙ্গবন্ধুর নির্দেশ

বিদ্যুৎ বিল পরিশোধ ও বেআইনি দখল ছাড়তে বঙ্গবন্ধুর নির্দেশ

সর্বশেষ

নাটোরে ৫০টি অক্সিজেন সিলিন্ডার দিলেন এমপি শিমুল

নাটোরে ৫০টি অক্সিজেন সিলিন্ডার দিলেন এমপি শিমুল

নও মুসলিম ফারুক হত্যার বিচার দাবিতে খাগড়াছড়িতে মানববন্ধন

নও মুসলিম ফারুক হত্যার বিচার দাবিতে খাগড়াছড়িতে মানববন্ধন

বেলকুচি উপজেলা ছাত্রলীগের উদ্যোগে বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি

বেলকুচি উপজেলা ছাত্রলীগের উদ্যোগে বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি

লকডাউন না মানায় ৮২ জনকে এক লাখ ৪০ হাজার টাকা জরিমানা

লকডাউন না মানায় ৮২ জনকে এক লাখ ৪০ হাজার টাকা জরিমানা

চীনা প্রকৌশলীকে খুঁজতে ২ ঘণ্টা দেরিতে ঘটনাস্থলে ফায়ার সার্ভিস

চীনা প্রকৌশলীকে খুঁজতে ২ ঘণ্টা দেরিতে ঘটনাস্থলে ফায়ার সার্ভিস

ভারতের লিড, টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালের ভাগ্যে কী আছে?

ভারতের লিড, টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালের ভাগ্যে কী আছে?

ভাসানচর থেকে পালানো ১৪ রোহিঙ্গা আটক

ভাসানচর থেকে পালানো ১৪ রোহিঙ্গা আটক

অ্যাস্ট্রাজেনেকার পর মডার্নার টিকা নিলেন ম্যার্কেল

অ্যাস্ট্রাজেনেকার পর মডার্নার টিকা নিলেন ম্যার্কেল

এবার নাটোরের সব পৌর এলাকায় বিধিনিষেধ

এবার নাটোরের সব পৌর এলাকায় বিধিনিষেধ

হোয়াটসঅ্যাপে শপ ফিচার আনছে ফেসবুক

হোয়াটসঅ্যাপে শপ ফিচার আনছে ফেসবুক

ট্রাকচাপায় ৩ মোটরসাইকেল আরোহী নিহত

ট্রাকচাপায় ৩ মোটরসাইকেল আরোহী নিহত

উদ্বাস্তুদের জন্য ‘বঙ্গভূমি’ রাজ্যের দাবি তুললেন বিজেপি বিধায়ক

উদ্বাস্তুদের জন্য ‘বঙ্গভূমি’ রাজ্যের দাবি তুললেন বিজেপি বিধায়ক

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

ভিক্ষুক জাতির কোনও মর্যাদা নেই: বঙ্গবন্ধু

ভিক্ষুক জাতির কোনও মর্যাদা নেই: বঙ্গবন্ধু

আলোচনার জন্য পাকিস্তানের কাছে ভারতের চিঠি

আলোচনার জন্য পাকিস্তানের কাছে ভারতের চিঠি

দ্রুত ত্রাণ বিতরণের নির্দেশ দিলেন বঙ্গবন্ধু

দ্রুত ত্রাণ বিতরণের নির্দেশ দিলেন বঙ্গবন্ধু

নারীদের চাকরিতে সমান সুযোগ দিতে বঙ্গবন্ধুর নির্দেশ

নারীদের চাকরিতে সমান সুযোগ দিতে বঙ্গবন্ধুর নির্দেশ

ঢাকা-কায়রো যুক্ত ঘোষণা

ঢাকা-কায়রো যুক্ত ঘোষণা

দুষ্কৃতিকারীদের রেহাই নেই: বঙ্গবন্ধু

দুষ্কৃতিকারীদের রেহাই নেই: বঙ্গবন্ধু

যুদ্ধাপরাধীদের বিচারে বিশেষ অগ্রগতি

যুদ্ধাপরাধীদের বিচারে বিশেষ অগ্রগতি

বরখাস্ত ব্যক্তিদের চাকরি ফেরাতে যথেষ্ট যাচাই হয়েছে: বঙ্গবন্ধু

বরখাস্ত ব্যক্তিদের চাকরি ফেরাতে যথেষ্ট যাচাই হয়েছে: বঙ্গবন্ধু

উন্নয়ন ও পুনর্গঠনের বাজেট ঘোষণা

উন্নয়ন ও পুনর্গঠনের বাজেট ঘোষণা

© 2021 Bangla Tribune