X
বুধবার, ১৬ জুন ২০২১, ২ আষাঢ় ১৪২৮

সেকশনস

পাটুরিয়ায় পারের অপেক্ষা

আপডেট : ০৮ মে ২০২১, ১৩:৫১

করোনা পরিস্থিতিতে স্বাস্থ্যবিধি না মেনে যাত্রীরা গাদাগাদি করে ফেরিতে ওঠায় সংক্রমণের ঝুঁকি বেড়ে গেছে। এ অবস্থায় মানিকগঞ্জের পাটুরিয়া ও রাজবাড়ীর দৌলতদিয়া নৌপথে ফেরিচলাচল বন্ধ রাখা হয়েছে। শনিবার (৮ মে) সকাল থেকে ফেরি চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। তবে এ অবস্থায় বিপাকে পড়েছেন সাধারণ যাত্রীরা। ফেরি চলাচলের বিষয়ে না জানায় সকাল থেকেই ঘাট এলাকায় ভিড় করেছেন হাজার-হাজার যাত্রী ও বিভিন্ন ছোট-বড় পরিবহন।

বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌপরিবহন করপোরেশন (বিআইডব্লিউটিসি)র আরিচা কার্যালয়ের উপ-মহাব্যবস্থাপক (বাণিজ্য) মো. জিল্লুর রহমান ফেরি চলাচল বন্ধ থাকার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এদিকে পারাপার বন্ধ থাকায় পাটুরিয়া ঘাটে আসা যাত্রীরা চরম ভোগান্তিতে পড়েছেন। দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের যাত্রীরা ঈদ উপলক্ষে গ্রামের বাড়িতে ফিরতে ঘাটে আসেন। বেশ কয়েকজন যাত্রী অভিযোগ করেন, ফেরি বন্ধ রাখার বিষয়টি শুক্রবার থেকে জানানো জরুরি ছিল। তাহলে যাত্রীরা ঘাটে আসতেন না, ভোগান্তিতেও পড়তে হতো না।

বন্ধের নির্দেশনার মধ্যেও চলছে ৩ ফেরি

বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌপরিবহন করপোরেশন (বিআইডব্লিউটিসি) আরিচা কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, করোনা সংক্রমণ রোধে সরকারি নির্দেশনায় সারাদেশে লকডাউন চলছে। এরই মধ্যে মাত্র দুটি ছোট ফেরি দিয়ে এতদিন পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া নৌপথে অ্যাম্বুলেন্স ও জরুরি পণ্যবাহী গাড়ি পারাপার করা হয়। তবে ঈদ উপলক্ষে শুক্রবার থেকে এই নৌপথে যাত্রী ও ব্যক্তিগত গাড়ির চাপ বেড়ে যায়। এতে বাধ্য হয়ে শুক্রবার যাত্রী ও ব্যক্তিগত গাড়ি পারাপার করতে হয়। তবে স্বাস্থ্যবিধি না মেনে এসব যাত্রীরা ফেরিতে গাদাগাদি করে ওঠে পড়ে। এতে করোনা সংক্রমণের ঝুঁকি বেড়ে যায়।

সকাল ৯টার দিকে সরেজিমন পাটুরিয়া প্রান্তে দেখা গেছে, ফেরি বন্ধ থাকায় ঘাট এলাকায় নদী পারের জন্য অপেক্ষা করছেন যাত্রীরা। পাঁচ নম্বর ঘাট এলাকায় পাঁচটি ফেরি নোঙর করে রাখা হয়েছে। বিভিন্ন ব্যক্তিগত গাড়ি আটকা পড়েছে। সকাল সোয়া ৯টার দিকে লাশবাহীসহ কয়েকটি অ্যাম্বুলেন্স পারাপারের জন্য মাধবীলতা নামের একটি ছোট ফেরিতে দুই নম্বর ঘাটের কাছে আসলে যাত্রীরা দৌড়ে সেই ফেরিতে ওঠার চেষ্টা করেন। এরপর ফেরিটি আর পন্টুনে ভেড়েনি।

বিআইডব্লিউটিসি আরিচা কার্যালের উপ-মহাব্যবস্থাপক (বাণিজ্য) মো. জিল্লুর রহমান বলেন, করোনার সংক্রমণ ঠেকাতে ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশে সকাল থেকে ফেরি বন্ধ রাখার সিন্ধান্ত হয়। পরবর্তী নির্দেশনা ছাড়া ফেরি চালুর বিষয়ে কোনও কিছু বলা যাচ্ছে না।

আরও পড়ুন:
সকাল থেকে যাত্রীবাহী ফেরি বন্ধ
ফেরি বন্ধ, তবু উপচে পড়া ভিড়

/টিটি/

সম্পর্কিত

সংঘবদ্ধ ধর্ষণ মামলায় গ্রেফতার ২

সংঘবদ্ধ ধর্ষণ মামলায় গ্রেফতার ২

কুম্ভ মেলায় অংশ নেওয়া লাখো মানুষের করোনা রিপার্ট ভুয়া

কুম্ভ মেলায় অংশ নেওয়া লাখো মানুষের করোনা রিপার্ট ভুয়া

পানিতেও চলে সাইফুলের সাইকেল, স্বপ্ন প্লেন বানানোর

পানিতেও চলে সাইফুলের সাইকেল, স্বপ্ন প্লেন বানানোর

ওমানে মিললো ব্ল্যাক ফাঙ্গাসের অস্তিত্ব

ওমানে মিললো ব্ল্যাক ফাঙ্গাসের অস্তিত্ব

‘করোনাকালীন কাজের স্বীকৃতি, আইএলও’র নির্বাচনে সর্বোচ্চ ভোট’

‘করোনাকালীন কাজের স্বীকৃতি, আইএলও’র নির্বাচনে সর্বোচ্চ ভোট’

বান্দরবানে কলেরা আক্রান্তদের চিকিৎসায় সেনাবাহিনী

বান্দরবানে কলেরা আক্রান্তদের চিকিৎসায় সেনাবাহিনী

শেখ হাসিনা গণমাধ্যমবান্ধব: প্রাণিসম্পদমন্ত্রী

শেখ হাসিনা গণমাধ্যমবান্ধব: প্রাণিসম্পদমন্ত্রী

খেলাপি ঋণ বেড়ে হয়েছে  ৯৫ হাজার ৮৫ কোটি টাকা

খেলাপি ঋণ বেড়ে হয়েছে ৯৫ হাজার ৮৫ কোটি টাকা

ভারতে কোভিডের আরও শক্তিশালী স্ট্রেইন

ভারতে কোভিডের আরও শক্তিশালী স্ট্রেইন

মাদকের মামলায় নাসিরসহ ৫ জনের বিরুদ্ধে প্রতিবেদন ১৮ আগস্ট

মাদকের মামলায় নাসিরসহ ৫ জনের বিরুদ্ধে প্রতিবেদন ১৮ আগস্ট

মিলাদ পড়ার নিয়ম নিয়ে সংঘর্ষে একজনের মৃত্যু

মিলাদ পড়ার নিয়ম নিয়ে সংঘর্ষে একজনের মৃত্যু

সর্বশেষ

গাজায় আবারও ইসরায়েলি বিমান হামলা

গাজায় আবারও ইসরায়েলি বিমান হামলা

মিয়ানমারের কাছে সামরিক প্রযুক্তি বিক্রি করছে ভারত

মিয়ানমারের কাছে সামরিক প্রযুক্তি বিক্রি করছে ভারত

সংক্রমণ ঠেকাতে সীমান্ত পাহারায় ভুটানের রাজা

সংক্রমণ ঠেকাতে সীমান্ত পাহারায় ভুটানের রাজা

রোনালদোর এক কথায় কোকা-কোলার সর্বনাশ!

রোনালদোর এক কথায় কোকা-কোলার সর্বনাশ!

আরও ২৭০ কোটি ডলার দান করলেন ম্যাকেঞ্জি

আরও ২৭০ কোটি ডলার দান করলেন ম্যাকেঞ্জি

জার্মানির আত্মঘাতী গোলে ফ্রান্সের উৎসব

জার্মানির আত্মঘাতী গোলে ফ্রান্সের উৎসব

পাকিস্তানের পার্লামেন্টে আইনপ্রণেতাদের লঙ্কাকাণ্ড

পাকিস্তানের পার্লামেন্টে আইনপ্রণেতাদের লঙ্কাকাণ্ড

ওমানের কাছেও হারলো বাংলাদেশ

বিশ্বকাপ বাছাইওমানের কাছেও হারলো বাংলাদেশ

করোনায় রক্ত জমাটের কারণ জানালেন আইরিশ বিজ্ঞানীরা

করোনায় রক্ত জমাটের কারণ জানালেন আইরিশ বিজ্ঞানীরা

রোনালদোর রেকর্ডময় রাতে উজ্জ্বল পর্তুগাল

রোনালদোর রেকর্ডময় রাতে উজ্জ্বল পর্তুগাল

সংঘবদ্ধ ধর্ষণ মামলায় গ্রেফতার ২

সংঘবদ্ধ ধর্ষণ মামলায় গ্রেফতার ২

আমি সব সময় প্রস্তুত: জেনেভায় পৌঁছে বাইডেন

আমি সব সময় প্রস্তুত: জেনেভায় পৌঁছে বাইডেন

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সংঘবদ্ধ ধর্ষণ মামলায় গ্রেফতার ২

সংঘবদ্ধ ধর্ষণ মামলায় গ্রেফতার ২

পানিতেও চলে সাইফুলের সাইকেল, স্বপ্ন প্লেন বানানোর

পানিতেও চলে সাইফুলের সাইকেল, স্বপ্ন প্লেন বানানোর

মিলাদ পড়ার নিয়ম নিয়ে সংঘর্ষে একজনের মৃত্যু

মিলাদ পড়ার নিয়ম নিয়ে সংঘর্ষে একজনের মৃত্যু

গৃহবধূকে অপহরণ করে আটকে রেখে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ, গ্রেফতার ১

গৃহবধূকে অপহরণ করে আটকে রেখে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ, গ্রেফতার ১

পদ্মা সেতুর রড চুরি, গ্রেফতার ৪

পদ্মা সেতুর রড চুরি, গ্রেফতার ৪

এশিয়ান হাইওয়েতে ৬০ কিলোমিটার যানজট, দুর্ভোগ চরমে

এশিয়ান হাইওয়েতে ৬০ কিলোমিটার যানজট, দুর্ভোগ চরমে

২০ ঘণ্টায় ধর্ষণ মামলার চার্জশিট দাখিল

২০ ঘণ্টায় ধর্ষণ মামলার চার্জশিট দাখিল

ব্যবসায়ীরা সৎ না হলে তাদের বিচার আল্লাহ করবে: খাদ্যমন্ত্রী

ব্যবসায়ীরা সৎ না হলে তাদের বিচার আল্লাহ করবে: খাদ্যমন্ত্রী

শখের বসে গরু পালন করে কোটিপতি শাহ নেওয়াজ 

শখের বসে গরু পালন করে কোটিপতি শাহ নেওয়াজ 

বিভাগে সবচেয়ে বেশি মৃত্যু সিলেট জেলায়

বিভাগে সবচেয়ে বেশি মৃত্যু সিলেট জেলায়

© 2021 Bangla Tribune