X
শুক্রবার, ২৫ জুন ২০২১, ১১ আষাঢ় ১৪২৮

সেকশনস

সময়ের আগেই রাজশাহীর বাজারে আম!

আপডেট : ০৯ মে ২০২১, ১৯:৪২

প্রশাসনের বেঁধে দেওয়া সময়ের আগেই রাজশাহীর বাজারে নেমে গেছে আম। প্রশাসনের নির্দেশনা অনুযায়ী আম ভাঙা শুরু হওয়ার কথা আগামী ১৫ মে থেকে। প্রশাসনের করা আমের ক্যালেন্ডার অনুযায়ী, এদিন থকে পর্যায়ক্রমে সাত ধাপে বিভিন্ন জাতের সুস্বাদু পরিপক্ক আম গাছ থেকে পাড়া হবে। তবে নির্ধারিত সময়ের আগেই রাজশাহীর বাজারে মিলছে বিভিন্ন জাতের পাকা আম। ব্যবসায়ীরা প্রতি কেজি আমের দাম হাঁকছেন ১২০ টাকা থেকে শুরু করে ২২০ টাকা পর্যন্ত!

রাজশাহীর বাজারে উঠেছে আম। তবে প্রশাসনের বেঁধে দেওয়া সময় অনুযায়ী আম ওঠার কথা ১৫ মে।

সারাদেশের মতো রাজশাহীতেও কিছু গুটি জাতের আম সবার আগে পেকে থাকে। জেলা প্রশাসনের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, আগামী ১৫ মে থেকে এই আম গাছ থেকে বিক্রির উদ্দেশ্যে নামাতে পারবেন চাষিরা। আর উন্নতজাতের আমগুলোর মধ্যে গোপালভোগ ২০ মে, রানিপছন্দ ২৫ মে, লক্ষণভোগ বা লখনা নামানো যাবে ২৫ মে থেকে এবং খিরসাপাত বা হিমসাগর ২৮ মে থেকে নামানো যাবে। এছাড়া ল্যাংড়া আম ৬ জুন, আম্রপালি এবং ফজলি ১৫ জুন থেকে নামানো যাবে। আর সবার শেষে ১০ জুলাই থেকে নামানো যাবে আশ্বিনা ও বারি-৪ জাতের আম

অথচ নগরীর বাজারগুলো ঘুরে দেখা যায়, ফলের দোকানগুলোতে এরইমধ্যে কয়েকটি জাতের আম বিক্রি হচ্ছে। দেখেই বোঝা যায়, আমগুলো ভালোভাবে পুষ্ট হয়নি। ২৮ মে খিরসাপাত ও হিমসাগর আম নামানোর নির্দেশনা দেওয়া হলেও এ আম এখনই বাজারে বিক্রি হচ্ছে। প্রতিকেজি খিরসাপাত আম বিক্রি হচ্ছে ১৩০ টাকা। হিমসাগর কেজিপ্রতি ২০০ টাকা। বৈশাখী জাতের আম বিক্রি হচ্ছে ১৪০ টাকাসহ বারমাসি বিভিন্ন জাতের আম ১২০ থেকে ১৬০ টাকা কেজি দরে।

আমের বিভিন্ন জাত দেখা যাচ্ছে। যে আম মাসের শেষে বা পরের মাসে ওঠার কথা সেগুলোও দেখা যাচ্ছে বাজারে।

ব্যবসায়ীরা বলছেন, এ আমগুলো রাজশাহীর নয়, সাতক্ষীরা থেকে আনা হচ্ছে। গত কয়েকদিন থেকেই রাজশাহীর বিভিন্ন বাজারে আম বিক্রি হচ্ছে। তারা শালবাগান বাজার থেকে পাইকারি দরে আম কিনছেন। কখনো মধ্যস্থকারীরা দিয়ে যাচ্ছে। আর নতুন উঠতে শুরু করা আমের দাম বেশি। আর রাজশাহী জেলা প্রশাসন সময় বেঁধে দিয়েছেন সেটা তারা শুনেছেন। কিন্তু আম তো রাজশাহী জেলার না।

নগরীর সাহেব বাজার এলাকার ফল ব্যবসায়ী সাজ্জাদ হোসেন জানান, তিনি গত তিনদিন থেকে অন্যান্য ফলের সঙ্গে বারমাসি কিছু আম বিক্রি করছেন। নতুন ফল হিসেবে ক্রেতাদের আগ্রহ ভালোই আছে। আর প্রথমে যেহেতু সরবরাহ কম তাই দামও বেশি।

এদিকে, প্রশাসনের নির্দেশনার আগে বাজারে এই অপুষ্ট আম দেখে অনেক ক্রেতাই বিরূপ মন্তব্য করছেন। তারা বলছেন, এতো আগে খিরসাপাত আম পাকা কিভাবে সম্ভব? গুটি কিছু আম হয়তো পাকতে পারে। আম দেখেও মনে হচ্ছে এখনো পুষ্ট হয়নি। কিন্তু পেকেও গেছে। এমন হতে পারে ফরমালিন দিয়ে আম পাকানো হয়েছে।

শনিবার (৮ মে) বিক্রেতার সঙ্গে আম নিয়ে কথা বলছিলেন ক্রেতা সাজেদুল ইসলাম। তিনি জানান, তিনি বিক্রেতার কাছে আমের দাম ও জাত জিজ্ঞেস করছিলেন। আমগুলো অপুষ্ট। কিন্তু পাকা। তাই সন্দেহ হচ্ছে। আবার মনে হলো কিছু গুটি জাতের আম নিয়ে যাই। কিন্তু দামও খুবই চড়া। তাই তিনি আম নেননি।

বিক্রেতাদের দাবি এগুলো রাজশাহীর নয়, সাতক্ষীরার আম।

এ বিষয়ে রাজশাহী জেলা প্রশাসনের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট (এডিএম) আবু আসলাম জানান, বাজারে আমের বিষয়টি তাদের নজরে এসেছে। খোঁজ খবর নিয়েছেন। অভিযান পরিচালনা করা হবে। নির্ধারিত সময়ের আগে অপুষ্ট আম বেচাকেনা করা যাবে না। আর এগুলো ফরমালিন দিয়ে পাকানো কি না এটাও পরীক্ষা করা হবে।

রাজশাহী জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতর সূত্রে জানা গেছে, রাজশাহীতে এ বছর ১৭ হাজার ৯৪৩ হেক্টর জমিতে আমবাগান আছে। গত বছর ১৭ হাজার ৫৭৩ হেক্টর জমিতে আমবাগান ছিল। এবার বাগান বেড়েছে ৩৭৩ হেক্টর জমিতে। এ বছর হেক্টর প্রতি ১১ দশমিক ৯ মেট্রিক টন আম উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে। লক্ষ্যমাত্রা অর্জিত হলে জেলায় এ বছর মোট দুই লাখ ১৯ হাজার মেট্রিক টন আম উৎপাদন হবে। তবে খরার কারণে এবার আমের ফলন কমে যাওয়ার আশঙ্কা আছে।

/টিএন/

সম্পর্কিত

শিশুকে ধর্ষণের পর হত্যার আসামি ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত

শিশুকে ধর্ষণের পর হত্যার আসামি ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত

রাজশাহী মেডিক্যালে একদিনে আরও ১৪ মৃত্যু

রাজশাহী মেডিক্যালে একদিনে আরও ১৪ মৃত্যু

মান্দায় বাস-ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষে প্রাণ গেলো ২ জনের

মান্দায় বাস-ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষে প্রাণ গেলো ২ জনের

রাজশাহী মেডিক্যালে একদিনে সর্বোচ্চ ১৮ মৃত্যু

রাজশাহী মেডিক্যালে একদিনে সর্বোচ্চ ১৮ মৃত্যু

৪১৭ টাকা মাসিক আয়ের এমপির সম্পদের হিসাব দিতে লাগলো ৩ মাস

৪১৭ টাকা মাসিক আয়ের এমপির সম্পদের হিসাব দিতে লাগলো ৩ মাস

তৃতীয় দফায় রাজশাহীতে আরও এক সপ্তাহ লকডাউন

তৃতীয় দফায় রাজশাহীতে আরও এক সপ্তাহ লকডাউন

কলেজ মাঠে পশুর হাটের প্রস্তুতি, বন্ধ করলেন ইউএনও

কলেজ মাঠে পশুর হাটের প্রস্তুতি, বন্ধ করলেন ইউএনও

অনির্দিষ্টকালের অবস্থান কর্মসূচিতে ‘অবৈধ’ নিয়োগপ্রাপ্তরা

অনির্দিষ্টকালের অবস্থান কর্মসূচিতে ‘অবৈধ’ নিয়োগপ্রাপ্তরা

চলন্ত ট্রাকে মানসিক ভারসাম্যহীন তরুণীকে ধর্ষণের অভিযোগ

চলন্ত ট্রাকে মানসিক ভারসাম্যহীন তরুণীকে ধর্ষণের অভিযোগ

রাজশাহী মেডিক্যালে করোনায় আরও ১৬ মৃত্যু

রাজশাহী মেডিক্যালে করোনায় আরও ১৬ মৃত্যু

ঠিকাদার কাটতে চান শতবর্ষী গাছ, রক্ষার দাবি এলাকাবাসীর

ঠিকাদার কাটতে চান শতবর্ষী গাছ, রক্ষার দাবি এলাকাবাসীর

নাটোরে ৫০টি অক্সিজেন সিলিন্ডার দিলেন এমপি শিমুল

নাটোরে ৫০টি অক্সিজেন সিলিন্ডার দিলেন এমপি শিমুল

সর্বশেষ

মুলতান পিএসএলের ‘সুলতান’

মুলতান পিএসএলের ‘সুলতান’

শিশুকে ধর্ষণের পর হত্যার আসামি ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত

শিশুকে ধর্ষণের পর হত্যার আসামি ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত

মনপুরায় জাতীয় গ্রিড থেকে বিদ্যুৎ সরবরাহের দাবি

মনপুরায় জাতীয় গ্রিড থেকে বিদ্যুৎ সরবরাহের দাবি

রেস্টুরেন্টে ৩৭ ডলারের বিল, টিপস ১৬ হাজার

রেস্টুরেন্টে ৩৭ ডলারের বিল, টিপস ১৬ হাজার

ইউএনও থেকে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক

ইউএনও থেকে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক

টি-টোয়েন্টিতে শ্রীলঙ্কার দুই ব্যাটসম্যান মারতে পারলেন বাউন্ডারি!

টি-টোয়েন্টিতে শ্রীলঙ্কার দুই ব্যাটসম্যান মারতে পারলেন বাউন্ডারি!

রাজধানীতে মানুষ ঢুকছে, বেরও হচ্ছে

রাজধানীতে মানুষ ঢুকছে, বেরও হচ্ছে

লকডাউন হচ্ছে পিরোজপুরের ৪ পৌর এলাকা

লকডাউন হচ্ছে পিরোজপুরের ৪ পৌর এলাকা

প্রযুক্তি পণ্যের সংকটকালে নকল পণ্যে বাজার সয়লাব

প্রযুক্তি পণ্যের সংকটকালে নকল পণ্যে বাজার সয়লাব

টিভিতে আজ

টিভিতে আজ

রাজশাহী মেডিক্যালে একদিনে আরও ১৪ মৃত্যু

রাজশাহী মেডিক্যালে একদিনে আরও ১৪ মৃত্যু

খুলনা মেডিক্যালে ৬ মৃত্যু, ৫ জনই পজিটিভ

খুলনা মেডিক্যালে ৬ মৃত্যু, ৫ জনই পজিটিভ

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

শিশুকে ধর্ষণের পর হত্যার আসামি ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত

শিশুকে ধর্ষণের পর হত্যার আসামি ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত

রাজশাহী মেডিক্যালে একদিনে আরও ১৪ মৃত্যু

রাজশাহী মেডিক্যালে একদিনে আরও ১৪ মৃত্যু

মান্দায় বাস-ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষে প্রাণ গেলো ২ জনের

মান্দায় বাস-ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষে প্রাণ গেলো ২ জনের

রাজশাহী মেডিক্যালে একদিনে সর্বোচ্চ ১৮ মৃত্যু

রাজশাহী মেডিক্যালে একদিনে সর্বোচ্চ ১৮ মৃত্যু

৪১৭ টাকা মাসিক আয়ের এমপির সম্পদের হিসাব দিতে লাগলো ৩ মাস

৪১৭ টাকা মাসিক আয়ের এমপির সম্পদের হিসাব দিতে লাগলো ৩ মাস

তৃতীয় দফায় রাজশাহীতে আরও এক সপ্তাহ লকডাউন

তৃতীয় দফায় রাজশাহীতে আরও এক সপ্তাহ লকডাউন

কলেজ মাঠে পশুর হাটের প্রস্তুতি, বন্ধ করলেন ইউএনও

কলেজ মাঠে পশুর হাটের প্রস্তুতি, বন্ধ করলেন ইউএনও

অনির্দিষ্টকালের অবস্থান কর্মসূচিতে ‘অবৈধ’ নিয়োগপ্রাপ্তরা

অনির্দিষ্টকালের অবস্থান কর্মসূচিতে ‘অবৈধ’ নিয়োগপ্রাপ্তরা

চলন্ত ট্রাকে মানসিক ভারসাম্যহীন তরুণীকে ধর্ষণের অভিযোগ

চলন্ত ট্রাকে মানসিক ভারসাম্যহীন তরুণীকে ধর্ষণের অভিযোগ

রাজশাহী মেডিক্যালে করোনায় আরও ১৬ মৃত্যু

রাজশাহী মেডিক্যালে করোনায় আরও ১৬ মৃত্যু

© 2021 Bangla Tribune