X
মঙ্গলবার, ১৫ জুন ২০২১, ১ আষাঢ় ১৪২৮

সেকশনস

সরকারি-বিরোধী দল উভয়ই মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের হওয়া উচিত: তথ্যমন্ত্রী

আপডেট : ০৭ জুন ২০২১, ১৮:৩১

তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, কোনও দেশে স্বাধীনতার ৫০ বছর পর, যারা স্বাধীনতার বিরোধিতা করেছিল, তারা রাজনীতি করতে পারে না। আমাদের দেশে রাজনীতি এমন হওয়া উচিত—যেখানে সরকারি দল ও বিরোধী দল উভয়ই থাকবে মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তি।

সোমবার (৭ জুন) ঐতিহাসিক ছয় দফা দিবস উপলক্ষে ধানমন্ডির ৩২ নম্বরে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে আওয়ামী লীগের পুষ্পস্তবক অর্পণে অংশগ্রহণ শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে সংক্ষিপ্ত মতবিনিময়কালে তিনি এসব কথা বলেন।

ড. হাছান বলেন, ‘দুঃখজনক হলেও সত্য, আজ স্বাধীনতার ৫০ বছর পরও স্বাধীনতাবিরোধী অপশক্তি, যারা বাংলাদেশের স্বাধীনতা চায়নি, তারা এখনও এ দেশে রাজনীতি করে। আর বিএনপি’র মতো একটি বড় দল সেই স্বাধীনতা বিরোধীদের সঙ্গে নিয়েই রাজনীতি করে, তাদের দলেও স্থান দেয়।’

৬ দফার প্রেক্ষাপট তুলে ধরে তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান প্রকৃতপক্ষে স্বাধীনতা অর্জনের লক্ষ্যে বাঙালির মনন তৈরির উদ্দেশ্যেই ৬ দফা ঘোষণা করেছিলেন। বাঙালির মুক্তির সনদ হিসেবে ৬ দফার ভিত্তিতে মানুষ আন্দোলন ও সংগ্রাম করেছে, ঊনসত্তরের গণঅভ্যুত্থান ও পরে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। সেই নির্বাচনের পর যখন পাকিস্তানি শাসকগোষ্ঠী ক্ষমতা হস্তান্তর করেনি, তারপর জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান স্বাধীনতা সংগ্রামের ডাক দিয়েছেন। দীর্ঘ স্বাধীনতা সংগ্রাম এবং মুক্তিযুদ্ধের মধ্য দিয়ে বাংলাদেশ স্বাধীনতা অর্জন করে।’

বঙ্গবন্ধু অনেক আগেই স্বাধীনতার পরিকল্পনা করেছিলেন উল্লেখ করে ড. হাছান বলেন, ‘পাকিস্তান সৃষ্টির পরপরই যখন তিনি অনুভব করলেন, এই পাকিস্তান রাষ্ট্র কাঠামোর মধ্যে বাঙালির কোনও দিন মুক্তি আসবে না, তখনই তিনি বাংলাদেশের স্বাধীনতার পরিকল্পনা করেছিলেন।’

এ সময় ইতিহাসের দিকে তাকিয়ে মন্ত্রী হাছান মাহমুদ বলেন, ‘‘১৯৭২ সালে বঙ্গবন্ধুর ৫৩তম জন্মদিনে মণি সিং তার বক্তৃতায় বলেছিলেন, ১৯৫১ সালেই মণি সিংয়ের কাছে বঙ্গবন্ধু চিঠি লিখেছিলেন যে ‘তিনি (বঙ্গবন্ধু) পুরো বাংলার স্বাধীনতার পরিকল্পনা করছেন। তারা তাঁর সঙ্গে থাকবেন কিনা?’ বঙ্গবন্ধু জানতেন কখন কোনটা জাতির সামনে উপস্থাপন করতে হবে। ১৯৬৬ সালে ৬ দফার মাধ্যমে বাঙালির মুক্তির সনদ ঘোষণা স্বাধীনতার পথে এক অনন্য সোপান।’

/এমএইচবি/এপিএইচ/এমওএফ/

সম্পর্কিত

গার্ড অব অনার: নারী ইউএনও’র বিকল্প প্রস্তাবের নিন্দা সিপিবির

গার্ড অব অনার: নারী ইউএনও’র বিকল্প প্রস্তাবের নিন্দা সিপিবির

আমি স্বস্তি নিয়ে বাঁচতে চাই: পরীমনি

আমি স্বস্তি নিয়ে বাঁচতে চাই: পরীমনি

সিপিবি-ভাঙা দলগুলো কেমন আছে?

ভাঙনের ২৮ বছরসিপিবি-ভাঙা দলগুলো কেমন আছে?

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ৩৩ লাখ গাছ লাগানো হবে

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ৩৩ লাখ গাছ লাগানো হবে

চার ব্যাংকের টাকা ঋণ নিয়ে ২ বছর পালিয়ে ছিলেন শহিদুল

চার ব্যাংকের টাকা ঋণ নিয়ে ২ বছর পালিয়ে ছিলেন শহিদুল

মিলাররা কেন চাল দিচ্ছেন না খতিয়ে দেখুন: খাদ্যমন্ত্রী

মিলাররা কেন চাল দিচ্ছেন না খতিয়ে দেখুন: খাদ্যমন্ত্রী

গার্ড অব অনার: সংসদীয় কমিটির চূড়ান্ত সিদ্ধান্তের অপেক্ষায় হাইকোর্ট

গার্ড অব অনার: সংসদীয় কমিটির চূড়ান্ত সিদ্ধান্তের অপেক্ষায় হাইকোর্ট

উচ্চশিক্ষা-গবেষণায় বঙ্গবন্ধুর আকাঙ্ক্ষা পূরণের অঙ্গীকার ইউজিসির

উচ্চশিক্ষা-গবেষণায় বঙ্গবন্ধুর আকাঙ্ক্ষা পূরণের অঙ্গীকার ইউজিসির

কক্সবাজারে ইয়াবা গিলে ঢাকায় এসে ধরা

কক্সবাজারে ইয়াবা গিলে ঢাকায় এসে ধরা

প্রথমবারের মতো ৬ বিলিয়ন ডলার লোকসানে এমিরেটস 

প্রথমবারের মতো ৬ বিলিয়ন ডলার লোকসানে এমিরেটস 

মুজিব আদর্শে বিশ্বাসীরা ৩টি করে গাছ লাগান: প্রধানমন্ত্রী

মুজিব আদর্শে বিশ্বাসীরা ৩টি করে গাছ লাগান: প্রধানমন্ত্রী

নাসিরের পক্ষে সংসদে জাপা এমপি চুন্নুর সাফাই

নাসিরের পক্ষে সংসদে জাপা এমপি চুন্নুর সাফাই

সর্বশেষ

গার্ড অব অনার: নারী ইউএনও’র বিকল্প প্রস্তাবের নিন্দা সিপিবির

গার্ড অব অনার: নারী ইউএনও’র বিকল্প প্রস্তাবের নিন্দা সিপিবির

সীমান্ত স্কয়ারে অগ্নিকাণ্ড

সীমান্ত স্কয়ারে অগ্নিকাণ্ড

ফ্লাইওভারে প্রাইভেটকার আটকিয়ে হেনস্তা, সেই পাঁচ তরুণ গ্রেফতার

ফ্লাইওভারে প্রাইভেটকার আটকিয়ে হেনস্তা, সেই পাঁচ তরুণ গ্রেফতার

বিমানবন্দরে ফাঁকি দিয়ে কোয়ারেন্টিনের ৬ যাত্রী বাড়িতে

বিমানবন্দরে ফাঁকি দিয়ে কোয়ারেন্টিনের ৬ যাত্রী বাড়িতে

যুবককে পিটিয়ে হত্যা, ইউপি চেয়ারম্যানসহ ১০ জনের বিরুদ্ধে মামলা

যুবককে পিটিয়ে হত্যা, ইউপি চেয়ারম্যানসহ ১০ জনের বিরুদ্ধে মামলা

এক কোটি ৭৭ হাজার ডোজ ‘কোভিশিল্ড' দেওয়া শেষ

এক কোটি ৭৭ হাজার ডোজ ‘কোভিশিল্ড' দেওয়া শেষ

এক ঘণ্টায় আম ডেলিভারি সুবিধা দিচ্ছে চালডাল ডটকম

এক ঘণ্টায় আম ডেলিভারি সুবিধা দিচ্ছে চালডাল ডটকম

আমি স্বস্তি নিয়ে বাঁচতে চাই: পরীমনি

আমি স্বস্তি নিয়ে বাঁচতে চাই: পরীমনি

‘আগাম সতর্কতায় অবজ্ঞার ফলেই ভারতে করোনার ভয়াবহতা’

‘আগাম সতর্কতায় অবজ্ঞার ফলেই ভারতে করোনার ভয়াবহতা’

শাবানার জন্মদিনে শাকিব খান শোনালেন দুর্ভাগ্যের কথা

শাবানার জন্মদিনে শাকিব খান শোনালেন দুর্ভাগ্যের কথা

নদীতে পড়ে ভাইবোনের মৃত্যু

নদীতে পড়ে ভাইবোনের মৃত্যু

আইডিএলসির এমডি ও সিইও হলেন জামাল উদ্দিন

আইডিএলসির এমডি ও সিইও হলেন জামাল উদ্দিন

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মিলাররা কেন চাল দিচ্ছেন না খতিয়ে দেখুন: খাদ্যমন্ত্রী

মিলাররা কেন চাল দিচ্ছেন না খতিয়ে দেখুন: খাদ্যমন্ত্রী

মুজিব আদর্শে বিশ্বাসীরা ৩টি করে গাছ লাগান: প্রধানমন্ত্রী

মুজিব আদর্শে বিশ্বাসীরা ৩টি করে গাছ লাগান: প্রধানমন্ত্রী

যুগের সঙ্গে তাল মিলিয়ে এসএসএফ হবে দক্ষ ও প্রশিক্ষিত: প্রধানমন্ত্রী

যুগের সঙ্গে তাল মিলিয়ে এসএসএফ হবে দক্ষ ও প্রশিক্ষিত: প্রধানমন্ত্রী

এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষা নেওয়া না গেলে বিকল্প মূল্যায়ন

এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষা নেওয়া না গেলে বিকল্প মূল্যায়ন

শিগগিরই খুলছে না শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান

শিগগিরই খুলছে না শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান

জনসেবা করতে গিয়ে মৃত্যু হয়েছে মোহাম্মদ নাসিমের: তথ্যমন্ত্রী

জনসেবা করতে গিয়ে মৃত্যু হয়েছে মোহাম্মদ নাসিমের: তথ্যমন্ত্রী

কোনও বুজুর্গ আলেমকে গ্রেফতার করা হয়নি: ধর্ম প্রতিমন্ত্রী

কোনও বুজুর্গ আলেমকে গ্রেফতার করা হয়নি: ধর্ম প্রতিমন্ত্রী

জাতিসংঘ স্থায়ী মিশনে বঙ্গবন্ধু লাউঞ্জ

জাতিসংঘ স্থায়ী মিশনে বঙ্গবন্ধু লাউঞ্জ

বরখাস্ত ব্যক্তিদের চাকরি ফেরাতে যথেষ্ট যাচাই হয়েছে: বঙ্গবন্ধু

বরখাস্ত ব্যক্তিদের চাকরি ফেরাতে যথেষ্ট যাচাই হয়েছে: বঙ্গবন্ধু

© 2021 Bangla Tribune