X
রবিবার, ২৫ জুলাই ২০২১, ১০ শ্রাবণ ১৪২৮

সেকশনস

প্রাথমিকে বিভাগীয় ব্যবস্থা গ্রহণে কঠোর নির্দেশ

আপডেট : ১৮ জুন ২০২১, ১৩:০০

কোনও কর্মকর্তা বা শিক্ষক গুরুতর অভিযোগ করার পরও কোনও ব্যবস্থা নেন না নিয়ন্ত্রণকারী কর্মকর্তা। স্বজনপ্রীতি ও নিজের সুবিধা আদায়ের জন্য এসব কাজ করে থাকেন সংশ্লিষ্ট নিয়ন্ত্রণকারী কর্মকর্তারা। এই পরিস্থিতি উত্তরণে নিয়ন্ত্রণকারী কর্মকর্তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতর।

প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতরের মাঠপর্যায়সহ বিভিন্ন স্তরের কর্মকর্তারা এবং শিক্ষকরা অপরাধ করলেও তাদের বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা না নিয়ে বাঁচানোর চেষ্টা করা হয়। ঊর্ধ্বতন নিয়ন্ত্রণকারী কর্মকর্তা অপরাধীদের বাঁচাতে এই কাজ করেন। ফলে প্রশাসনে স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা নিশ্চিত হয় না।  কর্মনিষ্ট নিবেদিত কর্মকর্তা ও শিক্ষকদের মধ্যে এতে অসন্তোষ সৃষ্টি হয়। কাজের গতিও নষ্ট হয় সংশ্লিষ্ট দফতরে। স্বজনপ্রীতি ও স্বার্থ আদায়ের জন্য এই কাজ করেন এমন অভিযোগ প্রায়ই শোনা যায়। তবে প্রশাসনে স্বচ্ছা ও গতিশীলতা অব্যাহত রাখতে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতর অপরাধ বিচারে কঠোর অবস্থান নিয়েছে।

প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতরের গত মে মাসের মাসিক সমন্বয় সভায় সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় যে নিয়ন্ত্রণকারী কর্মকর্তা অভিযুক্ত কর্মকর্তা-কর্চারীর বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা নেবেন না, তাদের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে। মাসিক সমন্বয় সভার সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নে গত ১৫ জুন ঢাকা, রাজশাহী, চট্টগ্রাম, খুলনা, সিলেট, বরিশাল, রংপুর ও ময়মনসিংহ বিভাগীয় উপ-পরিচালক, সব জেলা শিক্ষা অফিসার, সকল উপজেলা/থানা শিক্ষা অফিসারদের নির্দেশ দেওয়া হয়।

নির্দেশনায় বলা হয়, শিক্ষক, কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের বিরুদ্ধে যথা সময়ে বিভাগীয় ব্যবস্থা না নেওয়া হলে সংশ্লিষ্ট নিয়ন্ত্রণকারী কর্তকর্তার বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে। 

মাসিক সমন্বয় সভার সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন নির্দেশনায় আরও বলা হয়, বিনানুমতিতে বিদেশগমনকারী  এবং অনুমতি না নিয়ে বিদেশে গমন করে নির্ধারিত সময়ের পর বিদেশে অবস্থানকারী শিক্ষক, কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের বিরুদ্ধেও সরকারি আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নিতে হবে।

/এফএএন/

সম্পর্কিত

গৃহকর্মীর ছদ্মবেশে স্বর্ণালংকারসহ টাকা চুরি, গ্রেফতার নুপুর রিমান্ডে

গৃহকর্মীর ছদ্মবেশে স্বর্ণালংকারসহ টাকা চুরি, গ্রেফতার নুপুর রিমান্ডে

করোনায় মারা গেছেন নির্বাচন কর্মকর্তা ইসরাইল হোসেন

করোনায় মারা গেছেন নির্বাচন কর্মকর্তা ইসরাইল হোসেন

কওমি মাদ্রাসার শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা টিকা পাবেন কবে?

কওমি মাদ্রাসার শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা টিকা পাবেন কবে?

গৃহকর্মীর ছদ্মবেশে স্বর্ণালংকারসহ টাকা চুরি, গ্রেফতার নুপুর রিমান্ডে

আপডেট : ২৫ জুলাই ২০২১, ১৮:০৩

রাজধানীর রামপুরার একটি বাসায় গৃহকর্মীর ছদ্মবেশে স্বর্ণালংকারসহ নগদ টাকা চুরির অভিযোগে দায়ের করা মামলায় গ্রেফতার নুপুর আক্তারের একদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

রবিবার (২৫ জুলাই ) ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট ধীমান চন্দ্র মণ্ডলের আদালত রিমান্ডের এই আদেশ দেন। আদালতের সংশ্লিষ্ট থানার সাধারণ নিবন্ধন-জিআর শাখা এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

এদিন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা আসামিকে আদালতে হাজির করে তিন দিনের রিমান্ডের আবেদন করেন। তার আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে আদালত আসামি নুপুরের একদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

এর আগে  শনিবার (২৪ জুলাই ) কুমিল্লা জেলার লাকসাম থানার বাউরতলা এলাকা থেকে গৃহকর্মী নুপুরকে গ্রেফতার করা হয়। এ সময় রামপুরার বাসা থেকে চুরি হওয়া সোনার একটি চেইন, একটি চুড়ি, একটি আংটি ও নগদ পাঁচ হাজার টাকা নুপুরের কাছ থেকে উদ্ধার করা হয়েছে বলে জানায় ডিবি।

ডিবির যুগ্ম কমিশনার মো. মাহবুব আলম জানান, একটি অনলাইন গ্রুপের মাধ্যমে গত ১৭ জুলাই নুপুরকে ১০ হাজার টাকা মাসিক বেতনে কাজে নেন রামপুরার ওই বাসায় বাসিন্দারা। এরপর ২৩ জুলাই রামপুরার হাইস্কুল গলির ওই বাসা থেকে সোনার চেইন, চুড়ি, আংটিসহ নগদ কিছু টাকা চুরি হয়। এ ঘটনায় পরদিন রামপুরা থানায় চুরির মামলা হয়। এই মামলার ছায়া তদন্ত শুরু করে ডিবি রমনা বিভাগ। বিভিন্ন তথ্য-উপাত্ত বিশ্লেষণ করে ডিবি রমনা বিভাগের ‘অবৈধ অস্ত্র উদ্ধার ও মাদক নিয়ন্ত্রণ টিম’ কুমিল্লার লাকসাম থেকে গৃহকর্মী নুপুরকে গ্রেফতার করে।

মাহবুব আলম বলেন, ‘সংঘবদ্ধ একটি চক্র ঢাকা শহরের বিভিন্ন বাসাবাড়িতে গৃহকর্মীর ছদ্মবেশে তাদের লোকদের নিয়োগ দেয়। পরে সুযোগ বুঝে তাদের পাঠানো গৃহকর্মী বাসার স্বর্ণালংকারসহ মূল্যবান জিনিসপত্র নিয়ে পালিয়ে যায়। এই চক্রের সদস্যদের গ্রেফতারে অভিযান অব্যাহত আছে।’

 

/এমএইচজে/এপিএইচ/

সম্পর্কিত

করোনায় মারা গেছেন নির্বাচন কর্মকর্তা ইসরাইল হোসেন

করোনায় মারা গেছেন নির্বাচন কর্মকর্তা ইসরাইল হোসেন

কওমি মাদ্রাসার শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা টিকা পাবেন কবে?

কওমি মাদ্রাসার শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা টিকা পাবেন কবে?

কর্মীর দক্ষতা বাড়ালে রেমিট্যান্সও বাড়বে: প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রী

কর্মীর দক্ষতা বাড়ালে রেমিট্যান্সও বাড়বে: প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রী

মাসে ১ কোটি ভ্যাকসিন দেওয়ার পরিকল্পনা হচ্ছে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

মাসে ১ কোটি ভ্যাকসিন দেওয়ার পরিকল্পনা হচ্ছে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

পল্লবীতে কুপিয়ে হত্যা: আসামি বাবু রিমান্ডে

আপডেট : ২৫ জুলাই ২০২১, ১৭:৫৯

রাজধানীর পল্লবীতে ব্যবসায়ী সাহিনুদ্দিনকে কুপিয়ে হত্যার অভিযোগে দায়ের করা মামলায় গ্রেফতার মঞ্জুরুল হাসান বাবু ওরফে ইয়াবা বাবুর (২২) তিনদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

রবিবার ( ২৫ জুলাই) ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট ধীমান চন্দ্র মণ্ডলের আদালত রিমান্ডের আদেশ দেন।

আদালতের সংশ্লিষ্ট থানার সাধারণ নিবন্ধন (জিআর) শাখা থেকে এ তথ্য নিশ্চিত করা হয়েছে।

এদিন পুলিশ আসামি বাবুকে আদালতে হাজির করে ৫ দিনের রিমান্ডের আবেদন করেন। শুনানি শেষে আদালত তার তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

এর আগে শনিবার (২৪ জুলাই) রাত ৯টার দিকে মিরপুর-১২ নম্বরের লাল মাঠ এলাকা থেকে আসামিকে গ্রেফতার করা হয়।

সাহিনুদ্দিনকে (৩৩) প্রকাশ্যে কুপিয়ে হত্যার নেপথ্যে ইসলামী গণতান্ত্রিক পার্টির চেয়ারম্যান, তরিকত ফেডারেশনের সাবেক মহাসচিব এমএ আউয়াল জড়িত আছেন বলে অভিযোগ রয়েছে। জমি নিয়ে বিরোধের জেরে সাহিনুদ্দিনকে বাসা থেকে ডেকে নিয়ে হত্যা করা হয়েছে বলে দাবি করেছেন নিহতের মা আকলিমা বেগম। তিনি বাদী হয়ে পল্লবী থানায় আউয়ালসহ ২০ জনকে আসামি করে একটি হত্যা মামলা করেছেন। মামলাটি ডিবির কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

মামলার এজাহারে আকলিমা বেগম উল্লেখ করেছেন, গত ১৬ মে বিকাল ৪টায় সুমন ও টিটু নামে দুই যুবক সাহিনুদ্দিনকে জমির বিরোধ মেটানো হবে উল্লেখ করে ফোন দিয়ে ডেকে নেন। সাহিনুদ্দিন মোটরসাইকেলে পল্লবীর ডি-ব্লকের ৩১ নম্বর সড়কের ৪০ নম্বর বাসার সামনে পৌঁছালে সুমন ও টিটুসহ ১৪/১৫ জন তাকে টেনেহিঁচড়ে ওই বাড়ির গ্যারেজে নিয়ে যায়। এ সময় সাহিনুদ্দিনের ছয় বছরের ছেলে মাশরাফি গেটের বাইরে ছিল। গ্যারেজে ঢুকিয়ে তাকে সন্ত্রাসীরা চাপাতি, চাইনিজ কুড়াল, রামদা দিয়ে এলোপাতাড়ি কোপাতে থাকে। এরপর তাকে ওই বাড়ি থেকে বের করে ৩৬ নম্বর বাড়ির সামনে নিয়ে ফের কুপিয়ে সেখানে ফেলে রেখে চলে যায়। ছেলের সামনেই নৃশংসভাবে খুন হন সাহিনুদ্দিন।

আকলিমা বেগমের অভিযোগ, পল্লবীর সেকশন-১২ বুড়িরটেকে আলীনগর আবাসিক এলাকার হ্যাভেলি প্রোপার্টিজ ডেভেলপার লিমিটেডের এমডি এমএ আউয়ালের সঙ্গে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে ভাড়া করা স্থানীয় সন্ত্রাসীরা তাকে হত্যা করেছে। আনুমানিক পাঁচ কোটি টাকা মূল্যের ১০ একর জমি জবরদখলে বাধা দেওয়ায় খুন হতে হয় তাকে।

/এমএইচজে/এমএস/

সম্পর্কিত

রামপুরায় যুবকের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

রামপুরায় যুবকের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

দেশে নতুন মাদকের বাজার সৃষ্টির চেষ্টা চলছেই

দেশে নতুন মাদকের বাজার সৃষ্টির চেষ্টা চলছেই

লকডাউন অমান্য: রাজধানীতে গ্রেফতার ৩৮৩ জন

লকডাউন অমান্য: রাজধানীতে গ্রেফতার ৩৮৩ জন

কমলাপুর বিআরটিসি ডিপোতে হঠাৎ আগুনে পুড়লো বাস

কমলাপুর বিআরটিসি ডিপোতে হঠাৎ আগুনে পুড়লো বাস

আশ্রম সেবা কার্যক্রমের বর্ষপূর্তি অনুষ্ঠিত

আপডেট : ২৫ জুলাই ২০২১, ১৭:৪৯

স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন 'বঙ্গবন্ধু আনন্দ আশ্রম সেবা কার্যক্রমে’র বর্ষপূর্তি উপলক্ষে দেশব্যাপী ১২টি বৃদ্ধাশ্রমে একবেলা বিশেষ খাবার এবং খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করা হয়েছে।

রবিবার (২৫ জুলাই) গোপালগঞ্জ, ফরিদপুর, রাজবাড়ী, খুলনা, সাতক্ষীরা, দিনাজপুর, রংপুর, নীলফামারী, লালমনিরহাট, জামালপুর, গাইবান্ধা, বরিশাল জেলার ১২টি বৃদ্ধাশ্রমে দুপুরে বিশেষ খাবারের আয়োজন করা হয়েছে। এছাড়াও বৃদ্ধাশ্রমগুলোতে  চাল, ডালসহ খাদ্যসামগ্রী এবং চিকিৎসাসামগ্রী বিতরণ করা হয়।

গত বছরের ২৫ জুলাই ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের থিয়েটার এন্ড পারফরম্যান্স স্টাডিজ বিভাগের শিক্ষার্থী অপূর্ব চক্রবর্তী ও দীপম সাহার উদ্যোগে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনটি যাত্রা শুরু করে।

গত ১ বছরে দেশের ১২টি জেলায় অবস্থিত বৃদ্ধাশ্রমে চাহিদামত ১৫ -২০ দিনের খাদ্যসামগ্রী, ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প ও প্রবীণদের জন্য প্রয়োজনীয় ঔষধপত্র বিতরণ করেছে সংগঠনটি। পাশাপাশি প্রতিটি বৃদ্ধাশ্রমে ১০টি করে ফলজ ও বনজ গাছের চারা রোপণ করা হয়েছে।

এছাড়াও বিভিন্ন বৃদ্ধাশ্রমে প্রবীণদের একাকীত্বের জীবনে মানবিক সঙ্গ প্রদান এবং সাইকোলজিস্টের সাহায্য নিয়ে "টকিং কিউর" পদ্ধতিতে তাদের চিকিৎসা চালিয়ে যাচ্ছে।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাক্তন শিক্ষার্থী এই  কার্যক্রমের অন্যতম পৃষ্ঠপোষক অমিতাভ রায় বলেন, বৃদ্ধ বাবা-মায়ের পাশে দাঁড়ানো, তাদের মুখে অন্ন তুলে দেওয়া, তাদের মুখে এক চিলতে হাসি ফোটানোর যে উদ্যোগ বঙ্গবন্ধু আনন্দ আশ্রম সেবা কার্যক্রমের সদস্যরা গ্রহণ করেছে তা সত্যিই প্রশংসার দাবি রাখে। তাদের এই মহতী উদ্যোগের একজন ক্ষুদ্রতম অংশীদার হতে পেরে ভালো লাগছে। আসুন আমরা নিজ নিজ জায়গা থেকে এই সেবা কার্যক্রমের পাশে থাকি। কারণ মনুষ্যত্ব মানুষেরই জন্যে।

/এমএস/

সম্পর্কিত

ঢাবির অনলাইন ক্লাসে অসন্তুষ্ট ৪৬ শতাংশ শিক্ষার্থী

ঢাবির অনলাইন ক্লাসে অসন্তুষ্ট ৪৬ শতাংশ শিক্ষার্থী

অনলাইনে পরীক্ষা নিতে ভিডিও টিউটোরিয়াল প্রকাশ করলো ঢাবি

অনলাইনে পরীক্ষা নিতে ভিডিও টিউটোরিয়াল প্রকাশ করলো ঢাবি

ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয়কে ধন্যবাদ ঢাবি উপাচার্যের

ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয়কে ধন্যবাদ ঢাবি উপাচার্যের

জ্ঞান আহরণ ও বিতরণের গৌরবগাথা নিয়ে শতবর্ষ পাড়ি দিলো ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়: উপাচার্য

জ্ঞান আহরণ ও বিতরণের গৌরবগাথা নিয়ে শতবর্ষ পাড়ি দিলো ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়: উপাচার্য

করোনায় মারা গেছেন নির্বাচন কর্মকর্তা ইসরাইল হোসেন

আপডেট : ২৫ জুলাই ২০২১, ১৭:৪০

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে সিলেট আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা ইসরাইল হোসেন মারা গেছেন। রবিবার (২৫ জুলাই) দুপুরে রাজধানীর একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন (ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। নির্বাচন কমিশনের (ইসি) যুগ্ম-সচিব ও পরিচালক (জনসংযোগ) এসএম আসাদুজ্জামান বাংলা ট্রিবিউনকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

সিলেট-৩ আসনের রিটার্নিং কর্মকর্তার দায়িত্বে থাকা অবস্থায় তিনি করোনায় আক্রান্ত হন। অবস্থার অবনতি হলে তাকে ঢাকার একটি হাসপাতালের আইসিইউতে ভর্তি করা হয়। 

এছাড়া করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে রবিবার সকালে ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলায় কর্মরত ইসির কর্মী মোহাম্মদ এনামুল হক (৪৪) মারা গেছেন। এ নিয়ে করোনায় আক্রান্ত হয়ে ইসি'র সাত জন কর্মকর্তা-কর্মচারী মারা গেছেন।

এখনও পর্যন্ত ইসির প্রায় ১৬০ জন কর্মকর্তা-কর্মচারী করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এর মধ্যে সুস্থ হয়ে উঠেছেন ৭১ জন। অন্যরা চিকিৎসাধীন আছেন বলে জানা গেছে।

 

/ইএইচএস/এপিএইচ/

সম্পর্কিত

কওমি মাদ্রাসার শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা টিকা পাবেন কবে?

কওমি মাদ্রাসার শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা টিকা পাবেন কবে?

কর্মীর দক্ষতা বাড়ালে রেমিট্যান্সও বাড়বে: প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রী

কর্মীর দক্ষতা বাড়ালে রেমিট্যান্সও বাড়বে: প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রী

মাসে ১ কোটি ভ্যাকসিন দেওয়ার পরিকল্পনা হচ্ছে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

মাসে ১ কোটি ভ্যাকসিন দেওয়ার পরিকল্পনা হচ্ছে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

থুতনিতে মাস্ক রেখে সিগারেট খাওয়ায় ৫০০ টাকা জরিমানা

থুতনিতে মাস্ক রেখে সিগারেট খাওয়ায় ৫০০ টাকা জরিমানা

চিকিৎসকসহ ৮৮৯০ স্বাস্থ্যকর্মী করোনায় আক্রান্ত

আপডেট : ২৫ জুলাই ২০২১, ১৭:২২

দেশে করোনায় এখন পর্যন্ত আট হাজার ৮৯০ জন স্বাস্থ্যকর্মী আক্রান্ত হয়েছেন বলে জানিয়েছে চিকিৎসকদের জাতীয় সংগঠন বাংলাদেশ মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়েশন (বিএমএ)।

রবিবার ( ২৫ জুলাই) বিএমএ এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানায়।

বিএমএ জানায়, আট হাজার ৮৯০ জনের মধ্যে চিকিৎসক তিন হাজার ৫৮ জন, নার্স দুই হাজার ১৭৫ জন আর অন্যান্য স্বাস্থ্যকর্মী রয়েছেন তিন হাজার ৬৭৫ জন।

বিএমএ আরও জানিয়েছে, গত ২০ জুলাই পর্যন্ত করোনা এবং করোনার উপসর্গ নিয়ে ১৬৯ জন চিকিৎসক মারা গিয়েছেন।

করোনাতে আক্রান্ত হয়ে প্রথম চিকিৎসক মারা যান গত বছরের ১৫ এপ্রিল। সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিক্যাল কলেজের মেডিসিন বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ডা. মঈন উদ্দীন আহমেদ করোনাতে আক্রান্ত হয়ে প্রথম মৃত্যুবরণকারী চিকিৎসক।

/জেএ/এমআর/

সম্পর্কিত

ঢাকায় আরও ১০২ ডেঙ্গু রোগী

ঢাকায় আরও ১০২ ডেঙ্গু রোগী

৫ দিনে করোনায় ১ হাজার মানুষের মৃত্যু

৫ দিনে করোনায় ১ হাজার মানুষের মৃত্যু

ঢাকায় একদিনে ১০৪ ডেঙ্গু রোগী শনাক্ত

ঢাকায় একদিনে ১০৪ ডেঙ্গু রোগী শনাক্ত

সর্বশেষ

গৃহকর্মীর ছদ্মবেশে স্বর্ণালংকারসহ টাকা চুরি, গ্রেফতার নুপুর রিমান্ডে

গৃহকর্মীর ছদ্মবেশে স্বর্ণালংকারসহ টাকা চুরি, গ্রেফতার নুপুর রিমান্ডে

পল্লবীতে কুপিয়ে হত্যা: আসামি বাবু রিমান্ডে

পল্লবীতে কুপিয়ে হত্যা: আসামি বাবু রিমান্ডে

ন্যাপের ৬৪তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী আজ

ন্যাপের ৬৪তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী আজ

আশ্রম সেবা কার্যক্রমের বর্ষপূর্তি অনুষ্ঠিত

আশ্রম সেবা কার্যক্রমের বর্ষপূর্তি অনুষ্ঠিত

ঢাকার পথে ভারত থেকে আসা অক্সিজেন

ঢাকার পথে ভারত থেকে আসা অক্সিজেন

আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর ধাওয়ায় ৩ যাত্রী ফেরি থেকে নদীতে

আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর ধাওয়ায় ৩ যাত্রী ফেরি থেকে নদীতে

স্টিক দিয়ে মাথায় মেরে বসলেন আর্জেন্টিনার এক খেলোয়াড়!

অলিম্পিক হকিস্টিক দিয়ে মাথায় মেরে বসলেন আর্জেন্টিনার এক খেলোয়াড়!

করোনায় মারা গেছেন নির্বাচন কর্মকর্তা ইসরাইল হোসেন

করোনায় মারা গেছেন নির্বাচন কর্মকর্তা ইসরাইল হোসেন

যুক্তরাজ্যে করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্ট শনাক্ত

যুক্তরাজ্যে করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্ট শনাক্ত

মৃত্যু বেড়ে ২২৮, শনাক্ত ১১ হাজার ২৯১

মৃত্যু বেড়ে ২২৮, শনাক্ত ১১ হাজার ২৯১

নাসুমকে তিন ছক্কা মারা চাকাভাকে ফেরালেন সৌম্য 

নাসুমকে তিন ছক্কা মারা চাকাভাকে ফেরালেন সৌম্য 

বিয়ের আসর থেকে বরের পলায়ন, কনের মায়ের জরিমানা

বিয়ের আসর থেকে বরের পলায়ন, কনের মায়ের জরিমানা

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গৃহকর্মীর ছদ্মবেশে স্বর্ণালংকারসহ টাকা চুরি, গ্রেফতার নুপুর রিমান্ডে

গৃহকর্মীর ছদ্মবেশে স্বর্ণালংকারসহ টাকা চুরি, গ্রেফতার নুপুর রিমান্ডে

করোনায় মারা গেছেন নির্বাচন কর্মকর্তা ইসরাইল হোসেন

করোনায় মারা গেছেন নির্বাচন কর্মকর্তা ইসরাইল হোসেন

কওমি মাদ্রাসার শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা টিকা পাবেন কবে?

কওমি মাদ্রাসার শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা টিকা পাবেন কবে?

কর্মীর দক্ষতা বাড়ালে রেমিট্যান্সও বাড়বে: প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রী

কর্মীর দক্ষতা বাড়ালে রেমিট্যান্সও বাড়বে: প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রী

মাসে ১ কোটি ভ্যাকসিন দেওয়ার পরিকল্পনা হচ্ছে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

মাসে ১ কোটি ভ্যাকসিন দেওয়ার পরিকল্পনা হচ্ছে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

থুতনিতে মাস্ক রেখে সিগারেট খাওয়ায় ৫০০ টাকা জরিমানা

থুতনিতে মাস্ক রেখে সিগারেট খাওয়ায় ৫০০ টাকা জরিমানা

ধান বেচে ১৯৮টি আবেদন করেছিলেন মনিরুল

ধান বেচে ১৯৮টি আবেদন করেছিলেন মনিরুল

জাতীয় বায়োটেকনোলজি কুইজ প্রতিযোগিতার উদ্বোধন

জাতীয় বায়োটেকনোলজি কুইজ প্রতিযোগিতার উদ্বোধন

বাসাবাড়িতে চুরি করতে গৃহকর্মী নিয়োগ!

বাসাবাড়িতে চুরি করতে গৃহকর্মী নিয়োগ!

© 2021 Bangla Tribune