X
রবিবার, ২৫ জুলাই ২০২১, ১০ শ্রাবণ ১৪২৮

সেকশনস

বাইডেনের সঙ্গে কোনও বৈঠক নয়: ইরানের নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট

আপডেট : ২১ জুন ২০২১, ১৮:৪৫

মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন না বলে জানিয়েছেন ইরানের নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম রায়িসি। শুক্রবারের নির্বাচনে বিজয়ী হওয়ার পর সোমবার প্রথম সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য রাখেন রায়িসি। সেখানেই নিজের এমন অবস্থানের কথা জানান তিনি।

ইরানের ওপর থেকে যুক্তরাষ্ট্র নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করলে বাইডেনের সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন কিনা? একজন সাংবাদিকের এমন প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, ‘না’।

ইরানের সঙ্গে স্বাক্ষরিত পরমাণু সমঝোতা লঙ্ঘনের জন্য যুক্তরাষ্ট্রের এবং নিজেদের প্রতিশ্রুতি রক্ষা না করার জন্য ইউরোপীয় দেশগুলোর তীব্র সমালোচনা করেন রায়িসি। তিনি বলেন, আমেরিকাকে নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করে পরমাণু সমঝোতায় ফিরে আসতে হবে। ইউরোপীয়দেরকে ওয়াশিংটনের চাপের কাছে নতি স্বীকার না করে ইরানের প্রতি নিজেদের প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়ন করতে হবে।

নিজের সরকারের পররাষ্ট্র নীতি ব্যাখ্যা করে তিনি বলেন, দুনিয়ার সব দেশের সঙ্গে সম্পর্ক ও যোগাযোগ রক্ষা করা হবে। ইরানের জাতীয় স্বার্থ রক্ষা করার জন্য সম্ভাব্য সব পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

প্রতিবেশী দেশগুলোর সঙ্গে সম্পর্ক শক্তিশালী করাকে অগ্রাধিকার দেওয়া হবে  বলে উল্লেখ করেন রায়িসি। তিনি বলেন, সৌদি আরবের সঙ্গে পূর্ণ মাত্রায় কূটনৈতিক সম্পর্ক প্রতিষ্ঠা ও উভয় দেশে পরস্পরের দূতাবাস পুনরায় চালুর উদ্যোগ নেওয়া হবে।

ইসরায়েলের ব্যাপারে নিজের দৃষ্টিভঙ্গিও তুলে ধরেন নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট। তিনি বলেন, ইরানকে ভয় না পেয়ে তেল আবিবের উচিত ফিলিস্তিনি জনগণ ও প্রতিরোধ সংগ্রামীদের ভয় করা। ফিলিস্তিনের ব্যাপারে ইরানের নীতি হচ্ছে, সেখানকার মূল অধিবাসীদের মধ্যে গণভোটের মাধ্যমে ফিলিস্তিনের ভাগ্য নির্ধারণ করতে হবে।

ইয়েমেন যুদ্ধ নিয়েও কথা বলেন আয়াতুল্লাহ রায়িসি। তিনি বলেন, সৌদি আরবকে যত দ্রুত সম্ভব ইয়েমেনে আগ্রাসন বন্ধ করতে হবে। দেশটির জনগণকে বিদেশি হস্তক্ষেপ ছাড়াই তাদের ভাগ্য নির্ধারণের সুযোগ দিতে হবে।

ইব্রাহিম রায়িসি বলেন, গত ২৮ জুনের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ইরানের মহান জাতি যথারীতি যে মহাকাব্য রচনা করেছে তা ছিল জনগণের ইচ্ছা ও আকাঙ্ক্ষার বহিঃপ্রকাশ। নির্বাচনে জনগণের স্বতস্ফূর্ত উপস্থিতি আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের জন্য একটি গুরুত্বপূর্ণ বার্তা।

তিনি বলেন, করোনা মহামারির ভেতর শত্রুদের বিচিত্র শত্রুতা, মনস্তাত্ত্বিক যুদ্ধ, অর্থনৈতিক অনুযোগ ইত্যাদি বিচিত্র প্রতিকূলতা সত্ত্বেও নির্বাচনে জনগণের আন্তরিক উপস্থিতি যথেষ্ট অর্থবহ। তাদের এই উপস্থিতি ইরানের জনগণের মধ্যকার ঐক্য ও সংহতির বার্তা বহন করছে।

নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট বলেন, বৈষম্য, দারিদ্র্য, দুর্নীতির বিরুদ্ধে লড়াই করাসহ অর্থনৈতিক পরিস্থিতিতে পরিবর্তন প্রয়োজন।

ইব্রাহিম রায়িসি বলেন, জনগণ সর্বোচ্চ নেতার আহ্বানে সাড়া দিয়ে নির্বাচনে তাদের উপস্থিতির সাক্ষর রেখেছে। নির্বাচিত সরকারের উচিত দেশ ও জাতির দেওয়া ওই বার্তা গভীর মনোযোগ ও আন্তরিকতার সঙ্গে শোনা। জনগণকে আমরা যেসব প্রতিশ্রুতি দিয়েছি সেগুলো বাস্তবায়নের ব্যাপারে বিশ্বস্ত থাকতে হবে। যাবতীয় শক্তি ও আন্তরিকতা দিয়ে জনগণের সেবা করা এবং তাদের সমস্যাগুলো দূর করার ব্যাপারে কার্যকর উদ্যোগ নিতে হবে।

তিনি বলেন, আল্লাহর ওপর ভরসা করে এবং ইরানের সামর্থ্য ও সম্পদকে যথাযথভাবে কাজে লাগিয়ে বিশেষ করে যুব সমাজের মূল্যবান সমৃদ্ধিকে কাজে লাগানোর মধ্য দিয়ে পরিস্থিতির পরিবর্তন আনা অসম্ভব নয়। সূত্র: পার্স টুডে।

/এমপি/

সম্পর্কিত

তালেবান নেতা আখুন্দজাদাকে নিয়ে যা বললেন ট্রাম্প

তালেবান নেতা আখুন্দজাদাকে নিয়ে যা বললেন ট্রাম্প

বিমান হামলায় ২৬২ তালেবান যোদ্ধাকে হত্যার দাবি আফগানিস্তানের

বিমান হামলায় ২৬২ তালেবান যোদ্ধাকে হত্যার দাবি আফগানিস্তানের

টিকা নিয়ে উপহাস করা মার্কিনির করোনায় মৃত্যু

টিকা নিয়ে উপহাস করা মার্কিনির করোনায় মৃত্যু

ইরাকের মাটিতে মার্কিন সেনার প্রয়োজন নেই: প্রধানমন্ত্রী আল-খাদিমি

ইরাকের মাটিতে মার্কিন সেনার প্রয়োজন নেই: প্রধানমন্ত্রী আল-খাদিমি

সম্প্রচারের আগে কাদা মেখে বিতর্কে জার্মান সাংবাদিক

আপডেট : ২৫ জুলাই ২০২১, ২২:০১

জার্মানির এক টেলিভিশন সাংবাদিক বন্যা কবলিত এলাকা থেকে সরাসরি সম্প্রচারে যাওয়ার আগে কাদা মেখে বিতর্কের মুখে পড়েছেন। কাদা মাখার ভিডিওটি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়ে পড়লে ক্ষমা চেয়েছেন তিনি। জার্মান সংবাদমাধ্যম আরটিএল ঘটনাটি জানতে পেরে তাকে বরখাস্ত করেছে।

ভাইরাল হওয়া ভিডিওতে দেখা গেছে, ৩৯ বছর বয়সের সাংবাদিক সুসানা ওহলেন জার্মানির বন্যা বিধ্বস্ত একটি রয়েছেন। বন্যার উদ্ধার তৎপরতায় অংশগ্রহণের সত্যতা ফুটিয়ে তুলতে তাকে মুখ ও কাপড়ে কাদা মাখতে দেখা যায়।

;

আরটিএল-এর ওয়েবসাইটে একটি প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়। প্রতিবেদনটির বিষয়বস্তু ছিল, আরটিএল উপস্থাপক উদ্ধার অভিযানে অংশগ্রহণ করেছেন। কাদা মাখার ঘটনা প্রকাশের পর প্রতিবেদনটি সরিয়ে ফেলা হয়েছে। কর্তৃপক্ষ সুসানকে বরখাস্ত করেছে। ২০০৮ সাল থেকে তিনি এই টেলিভিশন চ্যানেলে কাজ করে আসছেন।

কাদা মেখে সুসান ওহলেনের প্রতিবেদন:

/এএ/

সম্পর্কিত

ঈদ বার্তায় এরদোয়ানের ‘ঘুমিয়ে পড়া’র ভিডিও ভাইরাল

ঈদ বার্তায় এরদোয়ানের ‘ঘুমিয়ে পড়া’র ভিডিও ভাইরাল

‘অপ্রতিরোধ্য হামলা’ চালানোর সক্ষমতা রয়েছে রাশিয়ার: পুতিন

‘অপ্রতিরোধ্য হামলা’ চালানোর সক্ষমতা রয়েছে রাশিয়ার: পুতিন

যুক্তরাজ্যে করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্ট শনাক্ত

যুক্তরাজ্যে করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্ট শনাক্ত

শীতে করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্ট আসবে! আশঙ্কা ফরাসি বিশেষজ্ঞের

শীতে করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্ট আসবে! আশঙ্কা ফরাসি বিশেষজ্ঞের

ঈদ বার্তায় এরদোয়ানের ‘ঘুমিয়ে পড়া’র ভিডিও ভাইরাল

আপডেট : ২৫ জুলাই ২০২১, ২১:২৬

তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়্যেব এরদোয়ানের পক্ষ থেকে ক্ষমতাসীন জাস্টিস অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট পার্টির সদস্যদের ঈদুল আজহার শুভেচ্ছা জানানোর ভিডিওটি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। তবে এই ভাইরাল হওয়ার পেছনে ঈদ বার্তার বক্তব্যের তেমন কোনও অবদান নেই। নেটিজেনদের আগ্রহের বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে, শুভেচ্ছা বার্তার বক্তব্য দেওয়ার মাঝখানেই এরদোয়ানের ঝিমুনি।

টুইটারে ভাইরাল হওয়া ভিডিওতে দেখা গেছে, শুভেচ্ছা বার্তা বক্তব্য দেওয়ার মাঝখানে কয়েক সেকেন্ড থেমে যান এবং তার চোখ বুজে যায়। পরে আবার দলের সদস্যদের প্রতি শুভেচ্ছা জানানো অব্যাহত রাখেন।

অনেকেই বলছেন, এরদোয়ানের এই ভিডিওটি লাইভ প্রচার হয়নি। পূর্ব রেকর্ডকৃত বক্তব্য। তাহলে কোনও সম্পাদনার পরও এরদোয়ানের ঝিমুনির অংশটুকু কীভাবে শুভেচ্ছা বার্তায় রয়ে গেলো।

/এএ/

সম্পর্কিত

সম্প্রচারের আগে কাদা মেখে বিতর্কে জার্মান সাংবাদিক

সম্প্রচারের আগে কাদা মেখে বিতর্কে জার্মান সাংবাদিক

‘অপ্রতিরোধ্য হামলা’ চালানোর সক্ষমতা রয়েছে রাশিয়ার: পুতিন

‘অপ্রতিরোধ্য হামলা’ চালানোর সক্ষমতা রয়েছে রাশিয়ার: পুতিন

যুক্তরাজ্যে করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্ট শনাক্ত

যুক্তরাজ্যে করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্ট শনাক্ত

সিরিয়ায় হামলায় তুর্কি সেনা নিহত, আঙ্কারার হুঁশিয়ারি

সিরিয়ায় হামলায় তুর্কি সেনা নিহত, আঙ্কারার হুঁশিয়ারি

তালেবান নেতা আখুন্দজাদাকে নিয়ে যা বললেন ট্রাম্প

আপডেট : ২৫ জুলাই ২০২১, ২১:০৮

সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট অ্যারিজোনা অঙ্গরাজ্যে আয়োজিত এক সমাবেশে কথা বলেছেন তালেবানের সর্বোচ্চ নেতা হিবাতুল্লাহ আখুন্দজাদাকে নিয়ে। ‘টার্নিং পয়েন্ট ইউএসএ গ্যাদারিং’ নামের এই সমাবেশে তালেবান নেতার সঙ্গে এক বৈঠকের স্মৃতিচারণ করেন তিনি।

ট্রাম্প বলেন, ‘আমি তালেবান নেতাকে বলি, আমি নেতাদের সঙ্গে কথা বলি’। এসময় আখুন্দজাদার নাম মনে করতে না পারায় থেমে যান ট্রাম্প। পরে বলেন, 'আসুন তাকে মোহাম্মদ নামেই ডাকি'।

আফগানিস্তান থেকে মার্কিন সেনা প্রত্যাহারের বিষয়টি ইঙ্গিত করে ট্রাম্প বলেন, আমি মোহাম্মদকে বলি, আমরা চলে যাচ্ছি।

ভাষণের এক পর্যায়ে আখুন্দজাদাকে নকল করার চেষ্টা করেন সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট। ট্রাম্প ঘোঁৎ ঘোঁৎ করা শুরু করেন। বলেন, ‘তিনি কঠিন প্রকৃতির লোক’। এসময় উপস্থিত মানুষের মধ্যে হাসির রোল পড়ে যায়।

ট্রাম্প আরও বলেন, খুব একটা সামাজিক না... তারা শুধু যুদ্ধ করতে জানে।

গত কয়েক সপ্তাহ ধরে আফগানিস্তানের বিভিন্ন এলাকার দখল নিয়েছে তালেবান। মার্কিন ও ন্যাটো ৯৫ শতাংশ সেনা দেশটি ছেড়ে যাওয়ার সুযোগে এই সামরিক অগ্রগতি অর্জন করেছে সশস্ত্র গোষ্ঠীটি। ৩১ আগস্ট মার্কিন সেনা প্রত্যাহার সম্পূর্ণ হবে। সূত্র: হারেৎজ

/এএ/

সম্পর্কিত

বিমান হামলায় ২৬২ তালেবান যোদ্ধাকে হত্যার দাবি আফগানিস্তানের

বিমান হামলায় ২৬২ তালেবান যোদ্ধাকে হত্যার দাবি আফগানিস্তানের

টিকা নিয়ে উপহাস করা মার্কিনির করোনায় মৃত্যু

টিকা নিয়ে উপহাস করা মার্কিনির করোনায় মৃত্যু

ইরাকের মাটিতে মার্কিন সেনার প্রয়োজন নেই: প্রধানমন্ত্রী আল-খাদিমি

ইরাকের মাটিতে মার্কিন সেনার প্রয়োজন নেই: প্রধানমন্ত্রী আল-খাদিমি

তালেবানের উত্থান, আফগানিস্তানে কারফিউ জারি

তালেবানের উত্থান, আফগানিস্তানে কারফিউ জারি

বিমান হামলায় ২৬২ তালেবান যোদ্ধাকে হত্যার দাবি আফগানিস্তানের

আপডেট : ২৫ জুলাই ২০২১, ২১:১০

আফগানিস্তানের সেনাবাহিনীর বিমান হামলায় অন্তত ২৬২ জন তালেবান যোদ্ধা নিহত হয়েছে। শনিবার (২৪ জুলাই) আফগান প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় জানায়, গত ২৪ ঘণ্টায় বিভিন্ন স্থানে একাধিক বিমান হামলা চালানো হয়। এতে তালেবানের একাধিক গাড়ি ও বাঙ্কার গুঁড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। তালেবানের পক্ষ থেকে বিমান হামলায় নিহতের সংখ্যা নিয়ে কোনও মন্তব্য পাওয়া যায়নি।

টুইটারে দেওয়া আফগান প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুসারে, শুক্রবার জাওঝান প্রদেশের মুরঘাব ও হাসান তাবিন গ্রামে অবস্থান করে তালেবানরা। শুক্রবার সেখানে বিমান হামলা চালায় আফগান বাহিনী। এতে ১৯ জন তালেবান যোদ্ধার মৃত্যু হয় এবং আহত হয়েছে ১৫ জন।

মার্কিন ও ন্যাটোর বেশিরভাগ সেনা প্রত্যাহারের পর এই এলাকার দখল নিয়েছিল তালেবান। তৈরি করে অনেক বাঙ্কার। এবার এলাকাটিতে আফগান বাহিনীর পাল্টাঘাতের মুখে পড়লো তারা।  

প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় জানায়, হেলমান্দ প্রদেশের লস্কর ঘা এলাকায় অভিযান চালায় আফগান বাহিনী। সেখানে দুই বিদেশি তালেবান যোদ্ধা নিহত হয়েছে। এছাড়া নিহত হয়েছে ১২ তালেবান যোদ্ধা। আহত হয়েছে ২ জন।

আফগান বাহিনীর পাল্টা হামলায় তিনটি গাড়ি, ৬টি মোটরসাইকেল, দুটি বাঙ্কার ধ্বংস করা হয়েছে বলে জানিয়েছে প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়। নষ্ট করা হয়েছে বিপুল অস্ত্রও।

সব মিলিয়ে শনিবার দেওয়া তথ্য অনুসারে, গত চব্বিশ ঘণ্টায় বিভিন্ন এলাকায় বিমান হামলায় নিহত তালেবান যোদ্ধার সংখ্যা ২৬২ জন। আহত হয়েছে ১৭৬ জন।

রবিবার আফগান প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় একাধিক টুইটে আরও কয়েকজন তালেবান যোদ্ধা সরকারি বাহিনীর অভিযানে নিহত হয়েছে বলে দাবি করেছে। নাঙ্গারহার, পাকটিকা, লোগার, গজনি, কান্দাহার, হেরাত, বালখ, জউজান, সামাঙ্গান, সার-ই-পল, হেলমান্দ, বাডাখশান, কুন্দুজ ও বাঘলান প্রদেশে গত ২৪ ঘণ্টায় ১৭৫ তালেবান যোদ্ধা নিহত হয়েছে বলে দাবি করেছে মন্ত্রণালয়।

এদিকে তালেবান হামলা রুখতে আফগানিস্তান জুড়ে নাইট কারফিউ জারি করেছে আফগান প্রশাসন।

 

/এএ/এমওএফ/

সম্পর্কিত

তালেবান নেতা আখুন্দজাদাকে নিয়ে যা বললেন ট্রাম্প

তালেবান নেতা আখুন্দজাদাকে নিয়ে যা বললেন ট্রাম্প

ইরাকের মাটিতে মার্কিন সেনার প্রয়োজন নেই: প্রধানমন্ত্রী আল-খাদিমি

ইরাকের মাটিতে মার্কিন সেনার প্রয়োজন নেই: প্রধানমন্ত্রী আল-খাদিমি

তালেবানের উত্থান, আফগানিস্তানে কারফিউ জারি

তালেবানের উত্থান, আফগানিস্তানে কারফিউ জারি

তিন মাসে ২ বার করোনা আক্রান্ত, হতাশায় দম্পতির আত্মহত্যা

তিন মাসে ২ বার করোনা আক্রান্ত, হতাশায় দম্পতির আত্মহত্যা

টিকা নিয়ে উপহাস করা মার্কিনির করোনায় মৃত্যু

আপডেট : ২৫ জুলাই ২০২১, ১৯:৩১

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে কোভিড-১৯ টিকা নিয়ে উপহাস যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়া অঙ্গরাজ্যের এক ব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে করোনাভাইরাসে। আক্রান্ত হওয়ার পর মৃত্যুর আগ পর্যন্ত প্রায় একমাস অসুস্থ ছিলেন স্টিফেন হারমন নামের ওই ব্যক্তি। বৃহস্পতিবার হিলসং প্রতিষ্ঠাতা ব্রায়ান হউস্টন বৃহস্পতিবার হারমনের মৃত্যু বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি এখবর জানিয়েছে।

স্টিফেন লস অ্যাঞ্জেলসের হিলসং মেগাচার্চের সদস্য ছিলেন। তিনি করোনা টিকার একজন সরব বিরোধিতাকারী। টিকা না নেওয়ার বিষয়ে তিনি ধারাবাহিক উপহাস করেছেন।

জুন মাসে সাত হাজার ফলোয়ারকে ৩৪ বছর বয়সী হারমন লিখেছিলেন, ৯৯টা সমস্যা রয়েছে। কিন্তু টিকা কোনও সমস্যা নয়।

লস অ্যাঞ্জেলসের বাইরে একটি হাসপাতালে তার নিউমোনিয়া ও করোনার চিকিৎসা চলছিল। বুধবার সেখানে তার মৃত্যু হয়।

মৃত্যুর আগে হারমন হাসপাতালের বিছানায় শুয়ে থাকার ছবি প্রকাশ করে নিজের বেঁচে থাকার লড়াইয়ের প্রমাণ রেখে গেছেন। তিনি লিখেছেন, সবাই আমার জন্য প্রার্থনা করুন। সত্যি সত্যি তারা আমাকে ভেন্টিলেটরে রাখতে চাইছে।

বুধবার শেষ টুইটে তিনি জানান, ইনটিউবেশনে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। লিখেছেন, জানি না কখন আমি জাগব। আমার জন্য প্রার্থনা করুন।

ভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার পরও হারমন জানিয়েছেন তিনি টিকা নেবেন না। ধর্মীয় বিশ্বাস তাকে রক্ষা করবে।

অসুস্থ হওয়ার আগে তিনি মহামারি ও টিকা নিয়ে উপহাস করেছেন। বিভিন্ন মেমেতে তিনি জানিয়েছেন, যুক্তরাষ্ট্রের সংক্রামক রোগ বিশেষজ্ঞ অ্যান্থনি ফাউচির চেয়ে বাইবেলের ওপর তা বিশ্বাস বেশি।  

/এএ/

সম্পর্কিত

তালেবান নেতা আখুন্দজাদাকে নিয়ে যা বললেন ট্রাম্প

তালেবান নেতা আখুন্দজাদাকে নিয়ে যা বললেন ট্রাম্প

লকডাউনের বিরোধিতাকারীদের ‘স্বার্থপর’ বললেন অস্ট্রেলীয় প্রধানমন্ত্রী

লকডাউনের বিরোধিতাকারীদের ‘স্বার্থপর’ বললেন অস্ট্রেলীয় প্রধানমন্ত্রী

যুক্তরাজ্যে করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্ট শনাক্ত

যুক্তরাজ্যে করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্ট শনাক্ত

ইরাকের মাটিতে মার্কিন সেনার প্রয়োজন নেই: প্রধানমন্ত্রী আল-খাদিমি

ইরাকের মাটিতে মার্কিন সেনার প্রয়োজন নেই: প্রধানমন্ত্রী আল-খাদিমি

সর্বশেষ

নৌ পুলিশের ওপর হামলা: প্রধান আসামি গ্রেফতার

নৌ পুলিশের ওপর হামলা: প্রধান আসামি গ্রেফতার

কোভিড মোকাবিলায় সামাজিক আন্দোলন গড়তে হবে: জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী

কোভিড মোকাবিলায় সামাজিক আন্দোলন গড়তে হবে: জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সাহস করে মারতে হয়: শামীম

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সাহস করে মারতে হয়: শামীম

সম্প্রচারের আগে কাদা মেখে বিতর্কে জার্মান সাংবাদিক

সম্প্রচারের আগে কাদা মেখে বিতর্কে জার্মান সাংবাদিক

দুর্বল দেশগুলোকে আর্থিক সহায়তা দেওয়া আবশ্যক

কপ-২৬ মন্ত্রিপর্যায়ের বৈঠকে পরিবেশমন্ত্রীদুর্বল দেশগুলোকে আর্থিক সহায়তা দেওয়া আবশ্যক

সাতক্ষীরায় করোনার চেয়ে উপসর্গে মৃত্যু ছয় গুণ

সাতক্ষীরায় করোনার চেয়ে উপসর্গে মৃত্যু ছয় গুণ

‌‘ইত্যাদি’ এবার মেট্রোরেলের ডিপোতে!

‌‘ইত্যাদি’ এবার মেট্রোরেলের ডিপোতে!

সরকারের ভুলেই করোনা পরিস্থিতি ভয়াবহ: মির্জা ফখরুল

সরকারের ভুলেই করোনা পরিস্থিতি ভয়াবহ: মির্জা ফখরুল

ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট ও  ব্রুনাইয়ের সুলতানের জন্য আম পাঠালেন প্রধানমন্ত্রী

ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট ও  ব্রুনাইয়ের সুলতানের জন্য আম পাঠালেন প্রধানমন্ত্রী

মসজিদের নামকরণ নিয়ে দুই পক্ষের সংঘর্ষে আহত ১২

মসজিদের নামকরণ নিয়ে দুই পক্ষের সংঘর্ষে আহত ১২

সাকিবের সঙ্গে ট্রফি জিতে গর্বিত শামীম

সাকিবের সঙ্গে ট্রফি জিতে গর্বিত শামীম

টি-২০ সিরিজ জেতায় রাষ্ট্রপতির অভিনন্দন

টি-২০ সিরিজ জেতায় রাষ্ট্রপতির অভিনন্দন

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

তালেবান নেতা আখুন্দজাদাকে নিয়ে যা বললেন ট্রাম্প

তালেবান নেতা আখুন্দজাদাকে নিয়ে যা বললেন ট্রাম্প

বিমান হামলায় ২৬২ তালেবান যোদ্ধাকে হত্যার দাবি আফগানিস্তানের

বিমান হামলায় ২৬২ তালেবান যোদ্ধাকে হত্যার দাবি আফগানিস্তানের

টিকা নিয়ে উপহাস করা মার্কিনির করোনায় মৃত্যু

টিকা নিয়ে উপহাস করা মার্কিনির করোনায় মৃত্যু

ইরাকের মাটিতে মার্কিন সেনার প্রয়োজন নেই: প্রধানমন্ত্রী আল-খাদিমি

ইরাকের মাটিতে মার্কিন সেনার প্রয়োজন নেই: প্রধানমন্ত্রী আল-খাদিমি

তালেবানের উত্থান, আফগানিস্তানে কারফিউ জারি

তালেবানের উত্থান, আফগানিস্তানে কারফিউ জারি

তিন মাসে ২ বার করোনা আক্রান্ত, হতাশায় দম্পতির আত্মহত্যা

তিন মাসে ২ বার করোনা আক্রান্ত, হতাশায় দম্পতির আত্মহত্যা

মহারাষ্ট্রে টানা ভারী বৃষ্টিতে বন্যা-ভূমিধস, জীবিতদের খোঁজে অভিযান

মহারাষ্ট্রে টানা ভারী বৃষ্টিতে বন্যা-ভূমিধস, জীবিতদের খোঁজে অভিযান

যুক্তরাষ্ট্রের বিভিন্ন সংস্থার বিরুদ্ধে চীনের পাল্টা নিষেধাজ্ঞা

যুক্তরাষ্ট্রের বিভিন্ন সংস্থার বিরুদ্ধে চীনের পাল্টা নিষেধাজ্ঞা

© 2021 Bangla Tribune