X
শনিবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১০ আশ্বিন ১৪২৮

সেকশনস

দড়ি লাফে রাসেলের বিশ্ব রেকর্ড, মির্জা ফখরুলের অভিনন্দন

আপডেট : ০১ আগস্ট ২০২১, ১৯:২২

দড়ি লাফে জোড়া বিশ্ব রেকর্ড করেছেন ঠাকুরগাঁওয়ের রাসেল ইসলাম। গিনেস বুক অব ওয়ার্ল্ড রেকর্ডসে নাম উঠেছে তার। তার অর্জনে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর অভিনন্দন জানিয়েছেন।

রবিবার (১ আগস্ট) বিকালে দলের চেয়ারপারসনের মিডিয়া উইং সদস্য শায়রুল কবির খানের সই করা এক বার্তায় এ কথা জানানো হয়েছে।

ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলার রহিমানপুর ইউনিয়নের সিরজাপাড়া গ্রামের বজলুর রহমানের ছেলে ১৮ বছর বয়সী রাসেল ইসলাম। তিনি শিবগঞ্জ ডিগ্রি কলেজের শিক্ষার্থী।

অভিনন্দন বার্তায় ফখরুল বলেন, ‘ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলা রহিমানপুর ইউনিয়নের সিরাজপাড়া গ্রামের বজলুর রহমানের ছেলে রাসেল ইসলাম ৩০ সেকেন্ডে এক পায়ে ১৪৫ বার দড়ি লাফানোর বিশ্ব রেকর্ড গড়েন। এর আগে বিশ্ব রেকর্ডটি ছিল ৩০ সেকেন্ডে ১৪৪ বার।  রাসেল পূর্বের বিশ্ব রেকর্ড ভেঙে যে অর্জনের মধ্য দিয়ে এলাকার ও দেশের সুনাম বয়ে এনেছেন, তাতে আমি গর্ববোধ করে তার সাফল্য কামনা করছি।’

প্রসঙ্গত, এক পায়ে ৩০ সেকেন্ড দড়ি লাফে আগের বিশ্ব রেকর্ড ছিল ১৪৪ বার লাফানোর। রাসেল ১৪৫ বার লাফিয়ে রেকর্ড গড়েন। আর ১ মিনিটে এক পায়ে ২৫৬ বার লাফানোর বিশ্ব রেকর্ড থাকলেও ২৫৮ বার লাফিয়েছেন রাসেল। বৃহস্পতিবার (২৯ জুলাই) গিনেস বুক অব ওয়ার্ল্ড রেকর্ডসের সনদ হাতে পেয়েছেন তিনি।

 

/এসটিএস/এপিএইচ/

সম্পর্কিত

বৈঠকেই ‘কাউন্সিল’ সেরে নিয়েছে বিএনপি!

বৈঠকেই ‘কাউন্সিল’ সেরে নিয়েছে বিএনপি!

দলীয় প্রতীকেও নির্বাচন করার চাপ জাসদে

দলীয় প্রতীকেও নির্বাচন করার চাপ জাসদে

‘সঞ্চয়পত্রের মুনাফার হার কমায় আয় সংকটে পড়বে মানুষ’

‘সঞ্চয়পত্রের মুনাফার হার কমায় আয় সংকটে পড়বে মানুষ’

নেতাদের সঙ্গে দ্বিতীয় দফার শেষ বৈঠকে বিএনপি

নেতাদের সঙ্গে দ্বিতীয় দফার শেষ বৈঠকে বিএনপি

বিরোধী জোটে বিভক্তি আনতে এজেন্সিগুলো সক্রিয়: মির্জা ফখরুল

আপডেট : ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৮:৩৫

বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর অভিযোগ করেছেন, বিরোধী ঐক্যে ‘বিভক্তি’ আনতে সরকার তার এজেন্সিগুলোকে সক্রিয় করেছে।’ শনিবার (২৫ সেপ্টেম্বর) জাতীয় প্রেস ক্লাবে ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের বার্ষিক সাধারণ সভার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিএনপি মহাসচিব এসব অভিযোগ করেন।

তিনি বলেন, ‘আজকে আমরা বিভক্ত। আমাদের সাংবাদিক সমাজ বলেন, রাজনৈতিক দলগুলো বলেন, আমাদের পেশাজীবী সংগঠনগুলো বলেন- এসব জায়গাগুলোতে বিভক্তি এসে গেছে এবং বিভক্তি সৃষ্টি করা হচ্ছে। অত্যন্ত সচেতনভাবে এই সরকারের যে এজেন্সিগুলো আছে; তারা আজ অত্যন্ত অ্যাক্টিভ। তারা আমরা যারা গণতন্ত্র চাই, দেশের স্বাধীনতা-সার্বভৌমত্ব চাই- তাদের মধ্যে বিভিন্নভাবে ঐক্যের বিনষ্ট ঘটাচ্ছে।’

ফখরুল বলেন, ‘এই বিষয়টা সম্পর্কে আমাদের সকলকে সজাগ থাকতে হবে। আমরা যারা গণতন্ত্রের জন্য কাজ করছি, লড়াই করছি, সংগ্রাম করছি; আমাদের বিভক্তির কোনও অবকাশ নেই। এই ফ্যাসিস্ট সরকারকে যদি সরাতে চাই জনগণের একটা দৃঢ় ঐক্যের প্রয়োজন আছে। একই সঙ্গে সমস্ত সংগঠনগুলো যারা গণতন্ত্রের বিশ্বাস করে তাদের ঐক্যের প্রয়োজন আছে।’

মির্জা ফখরুল বলেন, ‘এদেশের মানুষ এক দলীয় শাসনব্যবস্থা, কর্তৃত্ববাদী শাসন ব্যবস্থা চায় না। তারা বহুদলীয় গণতন্ত্রের বিশ্বাস করে। সকলকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে আমাদেরকে এই ভয়াবহ শাসনের সরকারকে সরিয়ে জনগণের নির্বাচিত সরকার প্রতিষ্ঠা করতে হবে। সেই লক্ষে আমাদের সকলকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে এগিয়ে যেতে হবে।’

তিনি বলেন, ‘আপনাদের সকলের প্রতি আমার আবেদন; বিভেদ নয়, জনগণের ঐক্য দিয়ে এদেশের মুক্তি হবে। গণতন্ত্র মুক্তি পাবে, দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া মুক্ত হবেন।’

মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, ‘দুর্ভাগ্য আমাদের ১/১১ এর চক্রান্ত থেকে আমরা মুক্তি পাইনি। ২০০৮ সালের নির্বাচন, পরবর্তী নির্বাচন সবই কিন্তু এক লক্ষে এগিয়ে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। আজকে আমাদের দুর্ভাগ্য দেশ কিন্তু রাজনীতিবিদরা পরিচালনা করে না। রাষ্ট্রের সমস্ত প্রতিষ্ঠাগুলোকে তারা সুপরিকল্পিতভাবে ধ্বংস করে দিচ্ছে।’

ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের (ডিইউজে) সভাপতি কাদের গণির চৌধুরী সভাপতিত্বে ও ডিইউজে নেতা শাহজাহান সাজু ও দিদারুল আলম দিদারের সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় জামায়াতে ইসলামীর সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল মাওলানা আবদুল হালিম, বিএফইউজের সভাপতি এম আবদুল্লাহ, মহাসচিব নুরুল আমিন রোকন, বিএফইউজে-ডিই্উজে-জাতীয় প্রেস ক্লাবের সাবেক নেতা এমএ আজিজ, আবদুল হাই শিকদার, কামাল উদ্দিন সবুজ, সৈয়দ আবদাল আহমেদ, বাকের হোসাইন, জাহাঙ্গীর আলম প্রধান, জাতীয় প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক ইলিয়াস খান, ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির সভাপতি মুরসালিন নোমানী, ডিইউজে সাধারণ সম্পাদক শহীদুল ইসলাম, সহ-সভাপতি শাহীন হাসনাত, বাসির জামাল ও রাশেদুল হক বক্তব্য রাখেন।

/এসটিএস/এনএইচ/

সম্পর্কিত

‘জাতীয় শিক্ষাক্রম-২০২০’  বাতিলের দাবি সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্টের

‘জাতীয় শিক্ষাক্রম-২০২০’  বাতিলের দাবি সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্টের

‘সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি রক্ষায় দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন এরশাদ’

‘সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি রক্ষায় দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন এরশাদ’

ব্যাটারিচালিত যানবাহন চলাচল নীতিমালা প্রণয়নের দাবি

ব্যাটারিচালিত যানবাহন চলাচল নীতিমালা প্রণয়নের দাবি

সঞ্চয়পত্রের মুনাফা কমানোর সিদ্ধান্ত নিষ্ঠুরতা: বাংলাদেশ ন্যাপ

সঞ্চয়পত্রের মুনাফা কমানোর সিদ্ধান্ত নিষ্ঠুরতা: বাংলাদেশ ন্যাপ

‘জাতীয় শিক্ষাক্রম-২০২০’  বাতিলের দাবি সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্টের

আপডেট : ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৬:৫৭

‘জাতীয় শিক্ষাক্রম-২০২০’ কে রাজনৈতিক এজেন্ডা বাস্তবায়নের পদক্ষেপ বলে আখ্যা দিয়ে বাতিলের দাবি জানিয়েছে সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্ট (মার্ক্সবাদ)।

শনিবার (২৫ সেপ্টেম্বর) সকাল ১১টায় সন্ত্রাসবিরোধী রাজু ভাস্কর্যের পাদদেশে আয়োজিত সমাবেশে এ দাবি জানিয়েছে সংগঠনটি।

সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন সংগঠনটির কেন্দ্রীয় সভাপতি মাসুদ রানা এবং সঞ্চালনা করেন  সাধারণ সম্পাদক রাশেদ শাহরিয়ার। 

সমাবেশে বক্তারা বলেন, সম্প্রতি ‘জাতীয় শিক্ষাক্রম-২০২০’ অনুমোদিত হয়েছে। যা কার্যকর হবে ২০২৩ সাল থেকে। সরকার একে ‘যুগোপযোগী-কার্যকর’ পদক্ষেপ বলছে। কিন্তু বাস্তবে এ হলো শাসক শ্রেণির রাজনৈতিক এজেন্ডা বাস্তবায়নের একটি পদক্ষেপ।  সামনের দিনে প্রযুক্তিগত উন্নয়নের ফলে একদল দক্ষ শ্রমিকের প্রয়োজন হবে। বাংলাদেশের শাসকরা সেই সুযোগটি কাজে লাগাতে চায়। ফলে শিক্ষা ব্যবস্থাকে সে অনুযায়ী গড়ে তোলার জন্যই এই শিক্ষাক্রম প্রণয়ন করেছে। মানুষকে শিক্ষা দেওয়া তার মূল লক্ষ্য নয়। এই শিক্ষাক্রমে এমন সব নীতি নেওয়া হয়েছে যা শিক্ষা ব্যবস্থায় ভয়ংকর বিপর্যয় নামিয়ে আনবে। 

বক্তারা আরও বলেন,  সামগ্রিক দিক থেকে বিবেচনা করে আমরা মনে করি জাতীয় শিক্ষাক্রম শিক্ষাক্ষেত্রে ভয়ংকর বিপর্যয় ডেকে আনবে। তাই এই শিক্ষাক্রম অবিলম্বে বাতিলের দাবি জানাচ্ছি।

এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন প্রচার প্রকাশনা সম্পাদক রাফিকুজ্জামান ফরিদ ও অর্থ সম্পাদক প্রগতি বর্মণ তমা।

/এমআর/

সম্পর্কিত

বিরোধী জোটে বিভক্তি আনতে এজেন্সিগুলো সক্রিয়: মির্জা ফখরুল

বিরোধী জোটে বিভক্তি আনতে এজেন্সিগুলো সক্রিয়: মির্জা ফখরুল

‘সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি রক্ষায় দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন এরশাদ’

‘সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি রক্ষায় দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন এরশাদ’

ব্যাটারিচালিত যানবাহন চলাচল নীতিমালা প্রণয়নের দাবি

ব্যাটারিচালিত যানবাহন চলাচল নীতিমালা প্রণয়নের দাবি

সঞ্চয়পত্রের মুনাফা কমানোর সিদ্ধান্ত নিষ্ঠুরতা: বাংলাদেশ ন্যাপ

সঞ্চয়পত্রের মুনাফা কমানোর সিদ্ধান্ত নিষ্ঠুরতা: বাংলাদেশ ন্যাপ

‘সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি রক্ষায় দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন এরশাদ’

আপডেট : ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৬:৪৬

জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান জিএম কাদের বলেছেন, ‘হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি রক্ষায় দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছিলেন এবং সকল ধর্মের অধিকার রক্ষায় অনন্য ভূমিকা রেখেছিলেন তিনি।’

শনিবার (২৫ সেপ্টেম্বর) দুপুরে জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান বনানী কার্যালয় মিলনায়তনে বাংলাদেশ হিন্দু পরিষদের নেতৃবৃন্দের সঙ্গে এক মতবিনিময় সভায় জিএম কাদের এ কথা বলেন।

সংখ্যালঘুদের বিষয়ে এরশাদের অবদান তুলে ধরে জিএম কাদের বলেন, ‘শুভ জন্মাষ্টমীর দিনটিকে সরকারি ছুটি ঘোষণা করেছিলেন হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ। জাতীয় পার্টির শাসনামলে প্রায় চার যুগ পরে রাজধানীতে জন্মাষ্টমীর শোভাযাত্রা বের হয়। এ ছাড়া বিভিন্ন পূজা-উৎসবে নিরাপত্তা ও আর্থিক সহায়তা দিয়েছেন। পল্লীবন্ধুর হাতে গড়া হিন্দু কল্যাণ ট্রাস্ট এখন শতকোটি টাকার প্রতিষ্ঠানে পরিণত হয়েছে। মন্দির নির্মাণ ও সংস্কারে পল্লীবন্ধু বরাদ্দ রেখেছেন সব সময়।’

জিএম কাদের বলেন, ‘সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির ঐতিহ্য রয়েছে আমাদের। যে কোন ত্যাগের বিনিময়ে আমরা সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি রক্ষায় বদ্ধপরিকর। যারা এ সম্প্রীতি বিনষ্টে ষড়যন্ত্র করবে তারা কখনই সফল হতে পারবে না।’

এ সময় বাংলাদেশ হিন্দু পরিষদ সংখ্যালঘু সুরক্ষা খসড়া আইন জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান এর হাতে তুলে দেন।

মতবিনিময় সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য এটিইউ তাজ রহমান, অ্যাড. মো. রেজাউল ইসলাম ভূঁইয়া, দফতর সম্পাদক এমএ রাজ্জাক খান।

/এসটিএস/এনএইচ/

সম্পর্কিত

বিরোধী জোটে বিভক্তি আনতে এজেন্সিগুলো সক্রিয়: মির্জা ফখরুল

বিরোধী জোটে বিভক্তি আনতে এজেন্সিগুলো সক্রিয়: মির্জা ফখরুল

‘জাতীয় শিক্ষাক্রম-২০২০’  বাতিলের দাবি সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্টের

‘জাতীয় শিক্ষাক্রম-২০২০’  বাতিলের দাবি সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্টের

ব্যাটারিচালিত যানবাহন চলাচল নীতিমালা প্রণয়নের দাবি

ব্যাটারিচালিত যানবাহন চলাচল নীতিমালা প্রণয়নের দাবি

সঞ্চয়পত্রের মুনাফা কমানোর সিদ্ধান্ত নিষ্ঠুরতা: বাংলাদেশ ন্যাপ

সঞ্চয়পত্রের মুনাফা কমানোর সিদ্ধান্ত নিষ্ঠুরতা: বাংলাদেশ ন্যাপ

ব্যাটারিচালিত যানবাহন চলাচল নীতিমালা প্রণয়নের দাবি

আপডেট : ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৫:১৬

ব্যাটারিচালিত যানবাহন চলাচল নীতিমালা প্রণয়নে ব্যাটারি রিকশা ও ইজিবাইককে অন্তর্ভুক্ত করা ও লাইসেন্স প্রদানসহ ৪ দফা দাবি জানানো হয়েছে। শনিবার (২৫ সেপ্টেম্বর) জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে রিকশা, ব্যাটারি রিকশা, ইজি বাইক চালক সংগ্রাম পরিষদের নেতৃবৃন্দরা এসব দাবি তুলে ধরেন। 

তাদের দাবিগুলোর মধ্যে রয়েছে, ব্যাটারিচালিত যানবাহন উচ্ছেদ না করা; আধুনিকায়ন করে রিকশা, ভ্যান, ইজিবাইকসহ ব্যাটারিচালিত যানবাহনের লাইসেন্স প্রদান করা; প্রতিটি সড়ক-মহাসড়কে রিকশা, ইজিবাইকসহ স্বল্প গতির এবং জনগণের সীমিত গতির যানবাহন চলাচলের স্বার্থে পৃথক লেন তৈরি করা এবং সার্ভিস রোড নির্মাণ করা।

এ ছাড়াও দাবি আদায়ের লক্ষে আগামী ২৯ সেপ্টেম্বর সকাল ১১টায় জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে সমাবেশ ও সড়ক পরিবহন মন্ত্রণালয় বরাবর স্মারকলিপি পেশ করার ঘোষণা দিয়েছেন তারা।

তাদের আরও কিছু কর্মসূচী হলো- ব্যাটারিচালিত যানবাহন চলাচল নীতিমালায় ব্যাটারি রিকশা এবং ইজিবাইককে অন্তর্ভুক্ত করা ও লাইসেন্স প্রদানসহ ৪ দফা দাবিতে আগামী ১-১৫ অক্টোবর সারাদেশে প্রচার পক্ষ পালন। ১১ অক্টোবর সারাদেশে ডিসি অফিসের মাধ্যমে সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয় এবং প্রত্যেক জেলায় বিআরটিএ কর্তৃপক্ষ বরাবর স্মারকলিপি পেশ করা। ১৫ থেকে ৩০ অক্টোবর ৪ দফা দাবিতে বিভাগীয় শহরে ব্যাটারি রিকশা ও ইজিবাইক চালক-গ্যারেজ মালিক মেকানিক শ্রমিক সমাবেশ অনুষ্ঠিত।

আগামী ১-২০ নভেম্বরে বিভাগীয় শহরসহ খেলায় জেলায় স্থানীয় রাজনৈতিক, ট্রেড ইউনিয়ন, পরিবহন শ্রমিক নেতৃবৃন্দ, প্রকৌশলী, সাংবাদিক, মেকানিক, চালক-মালিক-যাত্রী প্রতিনিধিদের নিয়ে 'ব্যাটারি চালিত যানবাহন উচ্ছেদ নয় সাধারণ যাত্রী ও শ্রমিকদের স্বার্থে আধুনিকায়ন চাই' শীর্ষক গোল টেবিল বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে। ২০-৩০ নভেম্বরে প্রত্যেক জেলা ও অঞ্চলে ৪ দফা দাবিতে সমাবেশ, মানববন্ধন ও মিছিল অনুষ্ঠিত হবে।

এ সময় সমাবেশে উপস্থিত ছিলেন পরিষদের আহবায়ক খালেকুজ্জামান লিপন, বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক দল-বাসদ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ও বাম গণতান্ত্রিক জোটের সমন্বয়ক বজলুর রশিদ ফিরোজ, বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য আব্দুল্লাহ হেল কাফী রতন, সমাজতান্ত্রিক শ্রমিক ফ্রন্ট কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি রাজেকুজ্জামান রতন প্রমুখ।

/বিআই/এনএইচ/ 

সম্পর্কিত

সঞ্চয়পত্রের মুনাফা কমানোর সিদ্ধান্ত নিষ্ঠুরতা: বাংলাদেশ ন্যাপ

সঞ্চয়পত্রের মুনাফা কমানোর সিদ্ধান্ত নিষ্ঠুরতা: বাংলাদেশ ন্যাপ

ভোটাধিকার নিশ্চিত করার দাবিতে মঙ্গলবার বিক্ষোভ করবে সিপিবি

ভোটাধিকার নিশ্চিত করার দাবিতে মঙ্গলবার বিক্ষোভ করবে সিপিবি

করোনায় শ্রমজীবী নারীরা প্রণোদনা পায়নি: মেনন

করোনায় শ্রমজীবী নারীরা প্রণোদনা পায়নি: মেনন

সংসদ নির্বাচনে ৩০০ আসনে প্রার্থী দিতে চায় ন্যাশনাল পিপলস পার্টি 

সংসদ নির্বাচনে ৩০০ আসনে প্রার্থী দিতে চায় ন্যাশনাল পিপলস পার্টি 

সঞ্চয়পত্রের মুনাফা কমানোর সিদ্ধান্ত নিষ্ঠুরতা: বাংলাদেশ ন্যাপ

আপডেট : ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৫:১৫

সঞ্চয়পত্রের মুনাফার হার কমানোর সরকারের সিদ্ধান্ত অবিলম্বে প্রত্যাহারের দাবি জানিয়েছেন বাংলাদেশ ন্যাশনাল আওয়ামী পার্টি-বাংলাদেশ ন্যাপ চেয়ারম্যান জেবেল রহমান গানি ও মহাসচিব এম. গোলাম মোস্তফা ভুইয়া।

শনিবার (২৫ সেপ্টেম্বর) দুপুরে গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে তারা বলেন, ‘সঞ্চয়পত্রের মুনাফার হার কমানোর সরকারী সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন হলে দেশের মধ্যবিত্ত, নিম্নবিত্ত ও স্বল্পআয়ের মানুষের আয় হ্রাস পাবে। বিশেষ করে অবসরে যাওয়া মধ্যমসারির কর্মকর্তা-কর্মচারীরা দৈনন্দিন ব্যয় নির্বাহে সংকটে পড়বেন এবং সমাজে ও পরিবারের এর নেতিবাচক প্রভাব পড়বে।’

মুনাফার এই হার কমানোর সিদ্ধান্ত দেশের লাখ লাখ মধ্যবিত্ত পরিবারের প্রবীণ, বিধবা, অবসরপ্রাপ্ত, ছোট চাকরিজীবী পরিবারের প্রতি ‘সরকারের নির্দয় নিষ্ঠুরতা ছাড়া কিছুই না’ বলেও মন্তব্য করেন তারা। ন্যাপের এই দুই শীর্ষ নেতা অবিলম্বে সঞ্চয়পত্রের মুনাফার হার কমানোর সিদ্ধান্ত প্রত্যাহারের জন্য সরকারের প্রতি আহ্বান জানান।

/এসটিএস/ইউএস/

সম্পর্কিত

ব্যাটারিচালিত যানবাহন চলাচল নীতিমালা প্রণয়নের দাবি

ব্যাটারিচালিত যানবাহন চলাচল নীতিমালা প্রণয়নের দাবি

ভোটাধিকার নিশ্চিত করার দাবিতে মঙ্গলবার বিক্ষোভ করবে সিপিবি

ভোটাধিকার নিশ্চিত করার দাবিতে মঙ্গলবার বিক্ষোভ করবে সিপিবি

করোনায় শ্রমজীবী নারীরা প্রণোদনা পায়নি: মেনন

করোনায় শ্রমজীবী নারীরা প্রণোদনা পায়নি: মেনন

সংসদ নির্বাচনে ৩০০ আসনে প্রার্থী দিতে চায় ন্যাশনাল পিপলস পার্টি 

সংসদ নির্বাচনে ৩০০ আসনে প্রার্থী দিতে চায় ন্যাশনাল পিপলস পার্টি 

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

বৈঠকেই ‘কাউন্সিল’ সেরে নিয়েছে বিএনপি!

বৈঠকেই ‘কাউন্সিল’ সেরে নিয়েছে বিএনপি!

দলীয় প্রতীকেও নির্বাচন করার চাপ জাসদে

দুই দিনব্যাপী কেন্দ্রীয় কমিটির সভাদলীয় প্রতীকেও নির্বাচন করার চাপ জাসদে

‘সঞ্চয়পত্রের মুনাফার হার কমায় আয় সংকটে পড়বে মানুষ’

‘সঞ্চয়পত্রের মুনাফার হার কমায় আয় সংকটে পড়বে মানুষ’

নেতাদের সঙ্গে দ্বিতীয় দফার শেষ বৈঠকে বিএনপি

নেতাদের সঙ্গে দ্বিতীয় দফার শেষ বৈঠকে বিএনপি

বিএনপি নেতা নজরুল ইসলাম খান হাসপাতালে ভর্তি

বিএনপি নেতা নজরুল ইসলাম খান হাসপাতালে ভর্তি

৫ বিভাগের সদস্যদের সঙ্গে বিএনপির রুদ্ধদ্বার বৈঠক

৫ বিভাগের সদস্যদের সঙ্গে বিএনপির রুদ্ধদ্বার বৈঠক

আওয়ামী লীগ বিদ্রোহী চায় না, বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতাও নয়

ইউপি নির্বাচনআওয়ামী লীগ বিদ্রোহী চায় না, বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতাও নয়

গুলশানে ছাত্রদলের হঠাৎ মিছিল

গুলশানে ছাত্রদলের হঠাৎ মিছিল

২১-২৩ সেপ্টেম্বর বিএনপির মতবিনিময়

২১-২৩ সেপ্টেম্বর বিএনপির মতবিনিময়

সর্বশেষ

কক্সবাজারে হোটেলে নিয়ে তরুণীকে ধর্ষণের পর হত্যা করে সাগর

কক্সবাজারে হোটেলে নিয়ে তরুণীকে ধর্ষণের পর হত্যা করে সাগর

বিরোধী জোটে বিভক্তি আনতে এজেন্সিগুলো সক্রিয়: মির্জা ফখরুল

বিরোধী জোটে বিভক্তি আনতে এজেন্সিগুলো সক্রিয়: মির্জা ফখরুল

থানার ওসি চাইলেই হ্যামিলনের বাঁশিওয়ালা হতে পারেন‌: আইজিপি

থানার ওসি চাইলেই হ্যামিলনের বাঁশিওয়ালা হতে পারেন‌: আইজিপি

জাতিসংঘে প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া ভাষণে মুগ্ধ মার্কিন রাষ্ট্রদূত

জাতিসংঘে প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া ভাষণে মুগ্ধ মার্কিন রাষ্ট্রদূত

অগ্রসর হচ্ছে নিম্নচাপ ‘গুলাব’, সতর্ক অবস্থানে স্বেচ্ছাসেবকরা

অগ্রসর হচ্ছে নিম্নচাপ ‘গুলাব’, সতর্ক অবস্থানে স্বেচ্ছাসেবকরা

© 2021 Bangla Tribune