X
শুক্রবার, ২২ অক্টোবর ২০২১, ৬ কার্তিক ১৪২৮

সেকশনস

পুলিশের সহায়তায় সন্তানসহ স্বামীর ঘরে ফিরলেন গৃহবধূ

আপডেট : ১৮ আগস্ট ২০২১, ১৮:৫৯

ময়মনসিংহের মুক্তাগাছায় দীর্ঘ চারবছর পর পুলিশের মধ্যস্থতায় শিশু সন্তানসহ স্বামীর ঘরে ফিরলেন এক গৃহবধূ। এমনকি পরবর্তী সময়ে ওই নারীর কোনও অসম্মান বা অধিকার ক্ষুণ্ণ হলে তার পাশে থাকারও আশ্বাস দিয়েছে পুলিশ।

পুলিশের মি‌ডিয়া অ্যান্ড পাব‌লিক রি‌লেশন্স উইং‌ থেকে জানানো হয়, ময়মনসিংহের মুক্তাগাছা থানা এলাকা থেকে এক গৃহবধূ পুলিশের মিডিয়া অ্যান্ড পাবলিক রিলেশন্স উইংকে জানান, তার স্বামী একই জেলার ফুলবাড়িয়া থানার অধিবাসী। তাদের ঘরে তিনবছর বয়সী একটি শিশু সন্তান রয়েছে। বিয়ের পর থেকে স্বামী তাকে নানাভাবে নিপীড়ন করতে থাকেন। এক পর্যায়ে তাকে বাড়ি থেকে তাড়িয়ে দেওয়া হয়। প্রায় চারবছর ধরে তার স্বামী তার ও তার সন্তানের কোনও খোঁজ খবর নেন না। নানাভাবে চেষ্টা করেও স্বামীর বাড়িতে ফিরে যেতে পারেননি। সংসার টিকিয়ে রাখতে তিনি সবধরনের চেষ্টা করেছেন। কিন্তু কোনোভাবেই পেরে ওঠেননি। 

ওই গৃহবধূ পুলিশেকে আরও জানান, তিনি কোনও মামলা-মোকদ্দমায় জড়াতে চান না। তিনি চান- স্বামী তাকে সন্তানসহ ফিরিয়ে নিক।

পুলিশ জানিয়েছে, এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে পুলিশের মিডিয়া অ্যান্ড পাবলিক রিলেশন্স উইং থেকে ময়মনসিংহের ফুলবাড়িয়া থানার ওসি মোল্লা জাকির হোসেনকে নির্দেশনা দেওয়া হয়। ফুলবাড়িয়ার ওসির উদ্যোগে স্থানীয় জনপ্রতিনিধি, সাংবাদিক ও গণ্যমান্য ব্যক্তিদের উপস্থিতি ও মধ্যস্থতায় উক্ত গৃহবধূকে তার স্বামী সসম্মানে বাড়িতে তুলে নিয়েছেন।

গৃহবধূর স্বামীকে জানানো হয়েছে, তার স্ত্রীর কোনও অসম্মান বা অধিকার ক্ষুন্ন করা হলে পুলিশ কঠোর আইনি ব্যবস্থা নিতে দ্বিধা করবে না। সেই সঙ্গে ওই গৃহবধূকেও আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল থাকার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। তাকে আশ্বস্ত করা হয়েছে- তার যে কোনও আইনসম্মত প্রয়োজনে পুলিশ সবসময় পাশে থাকবে। 

/জেইউ/ইউএস/

সম্পর্কিত

জাপানি শিশুদের নিয়ে বাবা-মায়ের টানাপড়েন: উভয়পক্ষের রিটের শুনানি ২৮ অক্টোবর

জাপানি শিশুদের নিয়ে বাবা-মায়ের টানাপড়েন: উভয়পক্ষের রিটের শুনানি ২৮ অক্টোবর

কমিউনিটি পুলিশিং ডে উপলক্ষে চাঁদা বা অর্থ সহায়তা না নেওয়ার নির্দেশ

কমিউনিটি পুলিশিং ডে উপলক্ষে চাঁদা বা অর্থ সহায়তা না নেওয়ার নির্দেশ

সর্বোচ্চ সতর্কতাতেও অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেছে: পুলিশ

সর্বোচ্চ সতর্কতাতেও অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেছে: পুলিশ

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে গুজব রটনাকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে গুজব রটনাকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা

রাজধানীতে ট্রেনের ধাক্কা ও কাটা পড়ে তিনজনের মৃত্যু

আপডেট : ২২ অক্টোবর ২০২১, ১৯:৩৩

রাজধানীতে ট্রেনের ধাক্কা ও কাটা পড়ে তিনজনের মৃত্যু হয়েছে। এর মধ্যে কাওরান বাজার এলাকায় দুইজন এবং বনানীর সৈনিক ক্লাব এলাকায় একজন প্রাণ হারিয়েছেন। শুক্রবার (২২ অক্টোবর) দিনের বিভিন্ন সময়ে এসব দুর্ঘটনা দেখা দেয়। ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহগুলো আইনি প্রক্রিয়া শেষে ঢামেক মর্গে পাঠিয়েছে ঢাকা রেলওয়ে পুলিশ।

রেলওয়ে পুলিশের এএসআই সাকলাইন জানিয়েছেন, বৃহস্পতিবার দিবাগত রাতে সৈনিক ক্লাব এলাকা থেকে জিন্স প্যান্ট ও শার্ট পরা এক যুবকের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। তার বয়স আনুমানিক ২৪ বছর। তবে পরিচয় জানা যায়নি। রেলওয়ে পুলিশের তথ্যানুযায়ী, কমলাপুরগামী সোনার বাংলা এক্সপ্রেস ট্রেনের ধাক্কায় মৃত্যু হয়েছে তার।

তেজগাঁও থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) রিয়াজ মাহমুদ জানিয়েছেন, বৃহস্পতিবার রাতে তেজগাঁও রেলস্টেশন ও কাওরান বাজারের মাঝামাঝি রেলগেট এলাকায় কমলাপুরগামী ট্রেনে কাটা পড়ে প্রাণ হারায় সবুজ শার্ট ও কালো প্যান্ট পরা এক ব্যক্তি। তার বয়স আনুমানিক ৪০ বছর। তবে পরিচয় জানা যায়নি।

এসআই রিয়াজ মাহমুদ জানান, বৃহস্পতিবার দুপুরে কাওরান বাজার কাঠপট্টি এলাকায় একটি মোবাইল ফোন দেখে আরেকটি মোবাইল ফোনে নম্বর তোলার সময় টঙ্গীগামী ট্রেনের ধাক্কায় মনসুর হেলাল (২৫) নামের এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে। আশেপাশের লোকজন ট্রেন আসছে দেখে তাকে ডাকলেও তিনি বুঝতে পারেননি।

পুলিশ জানিয়েছে, মৃত তরুণ একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে চাকরি করতেন। তার গ্রামের বাড়ি টাঙ্গাইলে। মিরপুরের একটি মেসে থাকতেন তিনি।

/এআইবি/আরটি/জেএইচ/

সম্পর্কিত

রাজনৈতিক দলগুলো পুরনো অভ্যাসে লিপ্ত, বিবৃতিতে ৪৭ নাগরিক

রাজনৈতিক দলগুলো পুরনো অভ্যাসে লিপ্ত, বিবৃতিতে ৪৭ নাগরিক

রবিবার দেশে জলবায়ু ধর্মঘট পালন করবেন পরিবেশবাদীরা

রবিবার দেশে জলবায়ু ধর্মঘট পালন করবেন পরিবেশবাদীরা

রাজধানীতে ট্রেন লাইনচ্যুত: সাড়ে তিন ঘণ্টা পর চলাচল স্বাভাবিক

রাজধানীতে ট্রেন লাইনচ্যুত: সাড়ে তিন ঘণ্টা পর চলাচল স্বাভাবিক

হিন্দু পরিষদের শাহবাগ অবরোধ

হিন্দু পরিষদের শাহবাগ অবরোধ

করোনাতে মৃত্যুহীন ৬০ জেলা

আপডেট : ২২ অক্টোবর ২০২১, ১৯:২৯

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে গত ২৪ ঘণ্টায় মারা গেছেন চারজন। যা গত ১৭ মাসের মধ্যে সর্বনিম্ন। এর আগে গত বছরের ৬ মে তিনজনের মৃত্যুর কথা জানিয়েছিল স্বাস্থ্য অধিদফতর।

শুক্রবার (২২ অক্টোবর) স্বাস্থ্য অধিদফতরের করোনা বিষয়ক বিজ্ঞপ্তি থেকে জানা যায়, গত ২৪ ঘণ্টায় (বৃহস্পতিবার সকাল ৮টা থেকে শুক্রবার সকাল ৮টা পর্যন্ত) মারা যাওয়া এই চারজনের মৃত্যু হয়েছে দেশের ৬৪ জেলার মধ্যে চারটি জেলায়। বাকি ৬০ জেলায় করোনাতে কারও মৃত্যু হয়নি।

মারা যাওয়া চারজনের মধ্যে ঢাকা বিভাগের মুন্সিগঞ্জ ও টাঙ্গাইল, চট্টগ্রাম বিভাগের চট্টগ্রাম ও বরিশাল বিভাগের বরিশাল জেলায় চারজনের মৃত্যু হয়েছে।

/জেএ/এমএস/

সম্পর্কিত

আরও ১২৩ জন ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে

আরও ১২৩ জন ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে

এক সপ্তাহে ৪ কোটি শিশু পাবে কৃমির ওষুধ

এক সপ্তাহে ৪ কোটি শিশু পাবে কৃমির ওষুধ

সাড়ে সাত লাখ টিকা দেওয়া হয়েছে আজ

সাড়ে সাত লাখ টিকা দেওয়া হয়েছে আজ

করোনায় মৃত্যুহীন ৫৬ জেলা

করোনায় মৃত্যুহীন ৫৬ জেলা

রন্ধনশৈলী একটি সৃজনশীল শিল্পকর্ম: শিক্ষামন্ত্রী

আপডেট : ২২ অক্টোবর ২০২১, ১৮:০৩

রান্নাকে একটি সৃজনশীল শিল্পকর্ম হিসেবে উল্লেখ করে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি। তিনি বলেন, ‘রন্ধনশিল্পীরা বাঙালির ঐতিহ্যবাহী রান্নার স্বাদ ও বৈচিত্র্যে নিত্য নতুন উদ্ভাবনার মধ্য দিয়ে দেশের সীমানা ছাড়িয়ে বিশ্বের ভোজন-রসিকদের কাছে পৌঁছে দিচ্ছেন।

শুক্রবার (২২ অক্টোবর) মহাখালী ডিওএইচএসে রাওয়া ক্লাব মিলনায়তনে ‘লবী রহমান'স কুকিং ফাউন্ডেশনের রান্নার রেসিপি বই ‘রসনা শৈলী'র মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, রান্নায় দেশ-বিদেশের প্রণালী ও পদ্ধতির সংমিশ্রণ করে রন্ধনশিল্পে তাদের মেধা ও নিষ্ঠার পরিচয় দিচ্ছেন।

দেশের প্রখ্যাত রন্ধন বিশেষজ্ঞ লবী রহমানের তত্ত্বাবধানে সারা দেশের প্রায় দেড়শ রন্ধনশিল্পীর পাঠানো রেসিপি সম্পাদন করে এই বইটি প্রকাশ করেছে মুক্তধারা নিউইয়র্ক-ঢাকা প্রকাশনা সংস্থা।

মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে আমন্ত্রিত অতিথিরা ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে আগত রন্ধনশিল্পীরা।

মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সংসদ সদস্য মো. শহীদুজ্জামান খোকন এবং আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন শেফ টনি খান ও বিশিষ্ট সংগীত শিল্পী আবিদা সুলতানা।

/এসএমএ/এমআর/

সম্পর্কিত

কারিগরি শিক্ষার প্রসারে বিত্তবানদের এগিয়ে আসার আহ্বান

কারিগরি শিক্ষার প্রসারে বিত্তবানদের এগিয়ে আসার আহ্বান

সিলেবাস আর সংক্ষিপ্ত করার সুযোগ নেই: শিক্ষামন্ত্রী

সিলেবাস আর সংক্ষিপ্ত করার সুযোগ নেই: শিক্ষামন্ত্রী

প্রকাশিত সূচিতেই এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষা হবে: শিক্ষামন্ত্রী

প্রকাশিত সূচিতেই এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষা হবে: শিক্ষামন্ত্রী

যত্রতত্র অনার্স-মাস্টার্স খুলে সনদ দেওয়া হয়েছে: শিক্ষামন্ত্রী

যত্রতত্র অনার্স-মাস্টার্স খুলে সনদ দেওয়া হয়েছে: শিক্ষামন্ত্রী

রাজধানীর যাত্রাবাড়ী ও চকবাজার থেকে আট ছিনতাইকারী গ্রেফতার

আপডেট : ২২ অক্টোবর ২০২১, ১৮:০২

রাজধানীর যাত্রাবাড়ী ও চকবাজার থেকে ৮ ছিনতাইকারীকে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব।

বৃহস্পতিবার (২১ অক্টোবর) পৃথক অভিযানে তাদের গ্রেফতার করা হয়। এ সময় তাদের কাছ থেকে চাকু, মোবাইল ফোন ও নগদ টাকা জব্দ করা হয়।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন – মো. শাহ আলম (২০), মো. পাবেল (১৯), মো. ফারহান (১৯), মো. ইয়াছিন (২৪), মো. হাবিবুল (১৯), মো. সৌরভ মিয়া (২৯), মো. শাকিল (১৯) ও মো. জিহাদুল ইসলাম আকাশ (১৯)।

শুক্রবার (২২ অক্টোবর) বিকালে র‍্যাব-১০ এর সহকারী পরিচালক এনায়েত কবির সোয়েব গণমাধ্যমকে বলেন, বৃহস্পতিবার রাজধানীর যাত্রাবাড়ী থানাধীন সায়েদাবাদ এলাকায় দুইটি পৃথক অভিযান পরিচালনা করে ৫ ছিনতাইকারীকে গ্রেফতার করা হয়। একই তারিখে রাতে চকবাজার মডেল থানাধীন হোসেনী দালান রোড এলাকায় অপর একটি অভিযানে ৩ জন ছিনতাইকারীকে গ্রেফতার করে র‍্যাব-১০।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায় যে, গ্রেফতারকৃত ব্যক্তিরা বেশ কিছুদিন ধরে যাত্রাবাড়ী ও চকবাজারসহ আশপাশের বিভিন্ন এলাকায় পথচারীদের ধারালো চাকুর ভয় দেখিয়ে টাকা-পয়সা ও মোবাইল ফোনসহ বিভিন্ন মূল্যবান জিনিসপত্র ছিনতাই করত। গ্রেফতারকৃতদের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট থানায় মামলা হয়েছে।

/আরটি/এমএস/

সম্পর্কিত

৫ প্রতিষ্ঠানকে পাঁচ লাখ ৭০ হাজার টাকা জরিমানা

৫ প্রতিষ্ঠানকে পাঁচ লাখ ৭০ হাজার টাকা জরিমানা

ইভ্যালির পরিচালনা পর্ষদ ও গ্রাহকদের যা মেনে চলতে হবে

ইভ্যালির পরিচালনা পর্ষদ ও গ্রাহকদের যা মেনে চলতে হবে

প্রেমিক থেকে ধর্ষণ মামলার আসামি

প্রেমিক থেকে ধর্ষণ মামলার আসামি

জাপানি শিশুদের নিয়ে বাবা-মায়ের টানাপড়েন: উভয়পক্ষের রিটের শুনানি ২৮ অক্টোবর

জাপানি শিশুদের নিয়ে বাবা-মায়ের টানাপড়েন: উভয়পক্ষের রিটের শুনানি ২৮ অক্টোবর

রাজনৈতিক দলগুলো পুরনো অভ্যাসে লিপ্ত, বিবৃতিতে ৪৭ নাগরিক

আপডেট : ২২ অক্টোবর ২০২১, ১৮:০৯

দেশের বিভিন্ন স্থানে হিন্দু  জনগোষ্ঠীর পূজামণ্ডপ ও বাড়ি ঘরে হামলা, ভাঙচুরের প্রতিবাদ জানিয়ে বিচার চেয়েছেন দেশের ৪৭ জন নাগরিক। শুক্রবার (২২ অক্টোবর) বিকালে সুশাসনের জন্য নাগরিক (সুজন)থেকে পাঠানো এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা জানানো হয়েছে।

বিবৃতিতে নাগরিকেরা অভিযোগ করেন,দেশের প্রধান রাজনৈতিক দলগুলো ঐক্যবদ্ধভাবে এগুলো প্রতিহত করার পরিবর্তে একে অপরকে দোষারোপ করার পুরনো অভ্যাসে লিপ্ত হয়েছে।

প্রতিবাদে নাগরিকেরা উল্লেখ করেন, আমরা মনে করি, যারা এসব ঘটনার সঙ্গে প্রত্যক্ষ কিংবা পরোক্ষভাবে জড়িত, তারা দেশের সকল নাগরিকের সমঅধিকার প্রতিষ্ঠার বিরোধী এবং পক্ষান্তরে  স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্বের জন্য চরম হুমকিস্বরূপ। তাই অবিলম্বে এইসব দুষ্কৃতকারীদের চিহ্নিত করে বিচারের আওতায় এনে যথাযথ শাস্তি নিশ্চিত করার জন্য আমরা সরকারের প্রতি দাবি জানাচ্ছি। একইসঙ্গে ক্ষতিগ্রস্তদের যথাযথ ক্ষতিপূরণ প্রদানের আহ্বান জানাচ্ছি।

তারা মনে করেন, কুমিল্লায় সংঘটিত ঘটনার পর প্রশাসন ও আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর আরও সতর্ক, সক্রিয় ও দায়িত্বশীল ভূমিকা পালন করা উচিত ছিল।

বিবৃতিতে নাগরিকরা বলেন, ‘প্রধান রাজনৈতিক দলগুলো ঐক্যবদ্ধভাবে এগুলো প্রতিহত করার পরিবর্তে একে অপরকে দোষারোপ করার পুরনো অভ্যাসে লিপ্ত হয়েছে। যথাযথ তথ্য-প্রমাণ বিবর্জিত এধরনের দোষারোপের রাজনীতি প্রকৃত অপরাধীদের প্রকারান্তরে আড়ালে থাকতে এবং পার পেয়ে যেতে সহায়তা করে।’

তারা  রাজনীতিবিদদেরকে এ ধরনের দায়িত্বজ্ঞানহীন কার্যক্রম থেকে বিরত থাকার অনুরোধ জানান। একইসঙ্গে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে ঢালাওভাবে মামলা দায়ের, বিচারের নামে হয়রানি না করার এবং গ্রেফতার বাণিজ্যে লিপ্ত না হওয়ার আহ্বান জানান।

বিবৃতিতে অধ্যাপক  সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী,ব্যারিস্টার আমির-উল ইসলাম, এম হাফিজউদ্দিন খান, ড. আকবর আলী খান, রাশেদা কে চৌধুরী,বিচারপতি আব্দুল মতিন, ড. এম সাখাওয়াত হোসেন, সুলতানা কামাল,ড. হামিদা হোসেন,ড. সালেহ উদ্দিন আহমেদ, আলী ইমাম মজুমদার, আবু আলম শহীদ খান,ড. দেবপ্রিয় ভট্টাচার্য , খুশী কবির, ড. বদিউল আলম মজুমদার, অধ্যাপক আনু মুহাম্মদ, ড. শাহদীন মালিক প্রমুখ।

/এসটিএস/এমআর/

সম্পর্কিত

রাজধানীতে ট্রেনের ধাক্কা ও কাটা পড়ে তিনজনের মৃত্যু

রাজধানীতে ট্রেনের ধাক্কা ও কাটা পড়ে তিনজনের মৃত্যু

হিন্দু পরিষদের শাহবাগ অবরোধ

হিন্দু পরিষদের শাহবাগ অবরোধ

আরও ১২৩ জন ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে

আরও ১২৩ জন ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে

জলবায়ু পরিবর্তন রোধে কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহণের দাবি

জলবায়ু পরিবর্তন রোধে কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহণের দাবি

সর্বশেষসর্বাধিক
quiz

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

জাপানি শিশুদের নিয়ে বাবা-মায়ের টানাপড়েন: উভয়পক্ষের রিটের শুনানি ২৮ অক্টোবর

জাপানি শিশুদের নিয়ে বাবা-মায়ের টানাপড়েন: উভয়পক্ষের রিটের শুনানি ২৮ অক্টোবর

কমিউনিটি পুলিশিং ডে উপলক্ষে চাঁদা বা অর্থ সহায়তা না নেওয়ার নির্দেশ

কমিউনিটি পুলিশিং ডে উপলক্ষে চাঁদা বা অর্থ সহায়তা না নেওয়ার নির্দেশ

সর্বোচ্চ সতর্কতাতেও অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেছে: পুলিশ

সর্বোচ্চ সতর্কতাতেও অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেছে: পুলিশ

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে গুজব রটনাকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে গুজব রটনাকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা

দুই বাসের প্রতিযোগিতায় ত্রিশালে সড়ক দুর্ঘটনা: বাসচালক গ্রেফতার

দুই বাসের প্রতিযোগিতায় ত্রিশালে সড়ক দুর্ঘটনা: বাসচালক গ্রেফতার

রংপুরের পুলিশ সুপার বিপ্লব কুমার সরকারসহ ৭ জনের বদলি

রংপুরের পুলিশ সুপার বিপ্লব কুমার সরকারসহ ৭ জনের বদলি

তিন শতাধিক উসকানিদাতা শনাক্ত, হোতাদের খুঁজছে পুলিশ

পূজামণ্ডপে হামলা-ভাঙচুরতিন শতাধিক উসকানিদাতা শনাক্ত, হোতাদের খুঁজছে পুলিশ

পুলিশের কর্মক্ষেত্রে যৌন নির্যাতন বন্ধে ব্যাপক প্রচারণার নির্দেশ সদর দফতরের

পুলিশের কর্মক্ষেত্রে যৌন নির্যাতন বন্ধে ব্যাপক প্রচারণার নির্দেশ সদর দফতরের

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার পরিচয়ে প্রতারণার অভিযোগে একজন গ্রেফতার

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার পরিচয়ে প্রতারণার অভিযোগে একজন গ্রেফতার

অনলাইনে হয়রানি, নারীদের পাশে ‘সাইবার সাপোর্ট ফর ওমেন’

অনলাইনে হয়রানি, নারীদের পাশে ‘সাইবার সাপোর্ট ফর ওমেন’

সর্বশেষ

টেস্ট খেলুড়ে দেশকে হারিয়ে নামিবিয়ার ইতিহাস

টেস্ট খেলুড়ে দেশকে হারিয়ে নামিবিয়ার ইতিহাস

প্রায় চার কোটি নাগরিককে নগদ অর্থ দেবে ফ্রান্স

প্রায় চার কোটি নাগরিককে নগদ অর্থ দেবে ফ্রান্স

মার্কিন সেনাবাহিনীর হাইপারসোনিক পরীক্ষা ব্যর্থ

মার্কিন সেনাবাহিনীর হাইপারসোনিক পরীক্ষা ব্যর্থ

ভ্রাম্যমাণ আদালত ছেড়ে আহতকে হাসপাতালে নিলেন ইউএনও

ভ্রাম্যমাণ আদালত ছেড়ে আহতকে হাসপাতালে নিলেন ইউএনও

রাজধানীতে ট্রেনের ধাক্কা ও কাটা পড়ে তিনজনের মৃত্যু

রাজধানীতে ট্রেনের ধাক্কা ও কাটা পড়ে তিনজনের মৃত্যু

© 2021 Bangla Tribune