X
মঙ্গলবার, ১৯ অক্টোবর ২০২১, ৩ কার্তিক ১৪২৮

সেকশনস

ইভ্যালি বিক্রির পরিকল্পনা ছিল রাসেলের

আপডেট : ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৪:৫২

অস্বাভাবিক সব অফার দিয়ে দেশে ‘ভেলকি’ সৃষ্টি করেছিল ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান ইভ্যালি। আর এর ফলে দায় বেড়ে খাদের কিনারায় এসেছে প্রতিষ্ঠানটি। অর্ডার করে ঠিক সময় পণ্য না পেয়ে মামলাও করেছেন ভুক্তভোগী গ্রাহক। গ্রেফতার ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) ও প্রধান নির্বাহী (সিও) মোহাম্মদ রাসেল বলছেন, প্রথমত তিনি একটি ব্র্যান্ড তৈরির পরিকল্পনা করেছিলেন। পরবর্তি সময়ে কোনও আন্তর্জাতিক প্রতিষ্ঠান বা দেশের বড় কোনও প্রতিষ্ঠানের কাছে দায়সহ বিক্রি করার পরিকল্পনা ছিল তার।

আজ শুক্রবার (১৭ সেপ্টেম্বর) দুপুরে রাজধানীর উত্তরায় র‌্যাব সদর দফতরে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানান বাহিনীর আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন। জিজ্ঞাসাবাদে রাসেল তার ব্যবসায়িক পরিকল্পনা সম্পর্কে এমন তথ্য র‌্যাবকে জানিয়েছেন বলে জানান এই র‌্যাব কর্মকর্তা।

তিনি জানান, মোহাম্মদ রাসেল ‘জেনে-শুনেই’ এই নেতিবাচক স্ট্র্যাটেজি নিয়েছিলেন।

এছাড়াও ইভ্যালিকে শেয়ার মার্কেটেও অন্তর্ভুক্তির প্রচেষ্টা ছিল মোহাম্মদ রাসেলের। খন্দকার আল মঈন জানান, প্রতিষ্ঠানটির বয়স তিন বছর অতিবাহিত হলে তিনি শেয়ারবাজারে অন্তর্ভুক্ত হতেন- এমনটাই প্রচেষ্টা ছিল তার। সম্প্রতি ইভ্যালি নিয়ে ব্যাপক আলোচনা সৃষ্টি হলে প্রায়শই ফেসবুক লাইভে এসে গ্রাহকের কাছে সময় চাইতেন মোহাম্মদ রাসেল। এটা তার সময়ক্ষেপণের একটা ‘অপকৌশল’ ছিল বলে জানিয়েছে র‌্যাব।

‘ব্যবসায়িক অপকৌশল’ হিসেবে নতুন গ্রাহকদের উপর দায় চাপিয়ে পুরাতন গ্রাহকদের আংশিক অর্থ ফেরত অথবা পণ্য ফেরত দিতেন উল্লেখ করে এই র‌্যাব কর্মকর্তা আরও বলেন, ‘তার এই দায় ট্রান্সফারের দুরভিসন্ধিমূলক অপকৌশল চালিয়ে তিনি প্রতারণা করে আসছিলেন। প্রতিষ্ঠানটি নেটওয়ার্কে যতো গ্রাহক তৈরি হয় লাইবেলিটিজ বাড়তে থাকে।’

গ্রেফতারদের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের বরাতে র‍্যাবের এই কর্মকর্তা জানান, রাসেল ২০০৭ সালে একটি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে মাস্টার্স এবং পরবর্তীতে ২০১৩ সালে এমবিএ সম্পন্ন করেছেন। তিনি ২০০৯ থেকে ২০১১ সাল পর্যন্ত একটি কোচিং সেন্টারে শিক্ষকতা করেন। ২০১১ সালে ব্যাংকিং সেক্টরে চাকরি শুরু করেন। প্রায় ৬ বছর চাকরির পর ২০১৭ সালে ব্যাংকের চাকরি ছেড়ে ব্যবসা শুরু করেন। তিনি প্রায় এক বছর শিশুদের ব্যবহার্য একটি আইটেম নিয়ে ব্যবসা করেন এবং পরে তিনি ওই ব্যবসা বিক্রি করে দেন। ২০১৮ সালে আগের ব্যবসালব্ধ অর্থ দিয়ে ইভ্যালি প্রতিষ্ঠার উদ্যোগ নেন। ২০১৮ সালের ডিসেম্বরে ইভ্যালির কার্যক্রম শুরু হয়। কোম্পানিতে তিনি সিইও এবং তার স্ত্রী চেয়ারম্যান পদে অধিষ্ঠিত হন।

র‍্যাবের লিগ্যাল অ্যান্ড মিডিয়া উইংয়ের পরিচালক আরও বলেন, ইভ্যালির অবকাঠামো সম্পর্কে জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায়, ভাড়াকৃত স্পেসে ধানমন্ডিতে প্রধান কার্যালয় এবং কাস্টমার কেয়ার স্থাপিত হয়। একইভাবে ভাড়াকৃত স্থান আমিন বাজার ও সাভারে তাদের ওয়্যার হাউজ চালু করা হয়। কোম্পানিতে শুরুর দিকে প্রায় দুই হাজার স্টাফ ছিল। সেই সঙ্গে প্রায় ১৭০০ অস্থায়ী কর্মচারীও ছিল। যা বর্তমানে ১৩০০ জন স্টাফ এবং প্রায় ৫০০ জন অস্থায়ী কর্মচারীতে এসে দাঁড়িয়েছে। প্রথমদিকে কর্মচারীদের মাসিক বেতন বাবদ ইভ্যালির খরচ হতো প্রায় ৫ কোটি টাকার বেশি, যা বর্তমানে দেড় কোটিতে এসে দাঁড়িয়েছে। গত জুন থেকে অনেকের বেতন দিতে সক্ষম হয়নি প্রতিষ্ঠানটি।

/আরটি/ইউএস/
টাইমলাইন: ইভ্যালি
১৮ অক্টোবর ২০২১, ১৯:১২
১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৬:৪৯
১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৪:২০
১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৩:৪২
১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৩:০১
ইভ্যালি বিক্রির পরিকল্পনা ছিল রাসেলের

সম্পর্কিত

ছাত্রদলের ভারপ্রাপ্ত দফতর সম্পাদক আব্দুস সাত্তার কারাগারে

ছাত্রদলের ভারপ্রাপ্ত দফতর সম্পাদক আব্দুস সাত্তার কারাগারে

খুলনায় মন্দির ভাঙচুরের মামলায় তিন আসামির জামিন স্থগিত

খুলনায় মন্দির ভাঙচুরের মামলায় তিন আসামির জামিন স্থগিত

অনলাইনে ডলার কেনা-বেচা নিয়ন্ত্রণে আইনি নোটিশ

অনলাইনে ডলার কেনা-বেচা নিয়ন্ত্রণে আইনি নোটিশ

শপথ নিলেন হাইকোর্টে স্থায়ী হওয়া ৯ বিচারপতি

শপথ নিলেন হাইকোর্টে স্থায়ী হওয়া ৯ বিচারপতি

১২ তলা অফিসার্স ক্লাব হচ্ছে বিমান বাহিনীর

আপডেট : ১৯ অক্টোবর ২০২১, ১৯:০০

বিমান বাহিনীর অবকাঠামোগত উন্নয়নের অংশ হিসেবে ১২তলা বিশিষ্ট অফিসার্স ক্লাব নির্মিত হচ্ছে। মঙ্গলবার (১৯ অক্টোবর) এর ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন বিমান বাহিনীর প্রধান এয়ার চিফ মার্শাল শেখ আব্দুল হান্নান। 

আন্তঃবাহিনী জনসংযোগ পরিদফতর আইএসপিআরের সহকারী পরিচালক নুরুল ইসলাম স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

বিমান বাহিনী প্রধান এয়ার চিফ মার্শাল শেখ আব্দুল হান্নান তার বক্তব্যে জাতীয় উন্নয়নের সঙ্গে সঙ্গতি রেখে বিমান বাহিনীর অপারেশনাল, প্রশাসনিক ও অবকাঠামোগত উন্নয়নের ওপর বিশেষ গুরুত্বারোপ করেন। তিনি জানান, ১২ তলা বিশিষ্ট অফিসার্স ক্লাবে বিমান বাহিনীর কর্মকর্তাদের জীবনযাত্রার মান উন্নয়নে থাকবে অত্যাধুনিক সুযোগ সুবিধা।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, বিমান বাহিনী ঘাঁটি বাশার-এ এই অফিসার্স ক্লাবের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করা হয়। ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন শেষে বিমান বাহিনী প্রধান ক্লাবের সর্বাঙ্গীণ সাফল্য কামনা করে মোনাজাতে অংশ নেন। অনুষ্ঠানে বিমান সদরের প্রিন্সিপাল স্টাফ অফিসারসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

/আরটি/এমআর/

সম্পর্কিত

শেখ রাসেল স্মৃতি স্কুল ফুটবল টুর্নামেন্টের উদ্বোধন

শেখ রাসেল স্মৃতি স্কুল ফুটবল টুর্নামেন্টের উদ্বোধন

বঙ্গবন্ধু আধুনিক সেনাবাহিনী গঠনের স্বপ্ন দেখেছিলেন: সেনাপ্রধান

বঙ্গবন্ধু আধুনিক সেনাবাহিনী গঠনের স্বপ্ন দেখেছিলেন: সেনাপ্রধান

মেক্সিকোর স্বাধীনতার ২০০ বছর উদযাপনে বাংলাদেশ সশস্ত্র বাহিনীর প্যারেড

মেক্সিকোর স্বাধীনতার ২০০ বছর উদযাপনে বাংলাদেশ সশস্ত্র বাহিনীর প্যারেড

নিজেদের রেশন থেকে দুস্থদের মাঝে খাদ্য সহায়তা মিলিটারি পুলিশের

নিজেদের রেশন থেকে দুস্থদের মাঝে খাদ্য সহায়তা মিলিটারি পুলিশের

চলতি মাসের ১৮ দিনে সাড়ে ৩ হাজার ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে

আপডেট : ১৯ অক্টোবর ২০২১, ১৮:৫৫

গত ২৪ ঘণ্টায় (১৮ অক্টোবর সকাল ৮টা থেকে ১৯ অক্টোবর সকাল ৮টা) ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ১৫১ জন। তাদের নিয়ে চলতি মাসের ১৮ দিনেই ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে সাড়ে ৩ হাজারের বেশি রোগী হাসপাতালে ভর্তি হলেন।

মঙ্গলবার ( ১৯ অক্টোবর) ডেঙ্গু বিষয়ক নিয়মিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে স্বাস্থ্য অধিদফতরের হেলথ ইমার্জেন্সি অপারেশন সেন্টার ও কন্ট্রোল রুম এ তথ্য জানায়।

কন্ট্রোল রুম জানায়, গত ২৪ ঘণ্টায় ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হওয়া ১৫১ জনের মধ্যে ঢাকা বিভাগের হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন ১০৫ জন আর বাকি ৪৬ জন দেশের অন্যান্য বিভাগে। তাদের নিয়ে চলতি মাসে এখন পর্যন্ত ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে তিন হাজার ৫২৮ জন ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে ভর্তি হলেন।

বর্তমানে দেশের বিভিন্ন হাসপাতালে ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে মোট রোগী ভর্তি আছেন ৭৯৮ জন। তাদের মধ্যে ঢাকার সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি আছেন ৬০৯ জন আর অন্যান্য বিভাগে ভর্তি আছেন ১৮৯ জন।

চলতি বছরে এখন পর্যন্ত ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন মোট ২১ হাজার ৭২৫ জন। তাদের মধ্যে চিকিৎসা নিয়ে বাড়ি ফিরেছেন ২০ হাজার ৮৪৪ জন আর চলতি বছরে ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ৮৩ জন।

/জেএ/এমআর/

সম্পর্কিত

২৪ জেলায় শনাক্ত নেই

২৪ জেলায় শনাক্ত নেই

শনাক্তের হার আবারও ২ শতাংশের ওপরে

শনাক্তের হার আবারও ২ শতাংশের ওপরে

করোনার বেড নিয়ে হ-য-ব-র-ল অবস্থা

করোনার বেড নিয়ে হ-য-ব-র-ল অবস্থা

দ্বিতীয় ডোজের আওতায় এক কোটি ৯৪ লাখ মানুষ

দ্বিতীয় ডোজের আওতায় এক কোটি ৯৪ লাখ মানুষ

নামিয়ে ফেলতে বলা হয়েছে সমুদ্রবন্দরের সতর্কতা সংকেত

আপডেট : ১৯ অক্টোবর ২০২১, ১৮:৫২

পূবালী পশ্চিমা বায়ুর সংমিশ্রণের ফলে দেশের নদীর তীরবর্তী বিভিন্ন অঞ্চলে ঝড়ো হাওয়াসহ মাঝারি থেকে ভারী বৃষ্টি হচ্ছে। এই কারণে নদী বন্দরগুলোতে ১ নম্বর সতর্কতা সংকেত দেখিয়ে যেতে বলা হয়েছে। কিন্তু উপকূলীয় এলাকায় ঝড়ো হাওয়া বয়ে যাওয়ার শঙ্কা নেই বলে দেশের সমুদ্র বন্দরগুলোতে দেওয়া ৩ নম্বর সতর্কতা সংকেত নামিয়ে ফেলতে বলেছে আবহাওয়া অধিদফতর।

আবহাওয়াবিদ মনোয়ার হোসেন জানান,  পূবালী পশ্চিমা বায়ুর সংমিশ্রণের ফলে দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে ঝড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টি হচ্ছে। তবে উপকূলীয় এলাকায় ঝড়ো হাওয়া বয়ে যাওয়ার শঙ্কা আর নেই বলে সংকেত নামানো হয়েছে। তবে আরও দুইদিন এই আবহাওয়া বিরাজ করবে।

সমুদ্রবন্দরগুলোর সতর্ক বার্তায় বলা হয়, উত্তর বঙ্গোপসাগর ও বাংলাদেশের উপকূলীয় এলাকার ওপর দিয়ে ঝড়ো হাওয়া বয়ে যাবার শঙ্কা নেই।

এজন্য চট্টগ্রাম, কক্সবাজার, মংলা ও পায়রা সমুদ্রবন্দরগুলোকে ৩ নম্বর স্থানীয় সতর্কতা সংকেত নামিয়ে ফেলতে বলা হয়েছে। তবে উত্তর বঙ্গোপসাগরে অবস্থানরত মাছ ধরার নৌকা ও ট্রলারগুলোকে আগামীকাল (২০ অক্টোবর) পর্যন্ত সাবধানে চলাচল করতে বলা হয়েছে

এদিকে আবহাওয়া অধিদফতরের পূর্বাভাসে বলা হয়,  খুলনা, বরিশাল, ঢাকা, রংপুর, রাজশাহী,  ময়মনসিংহ ও সিলেট বিভাগের অধিকাংশ জায়গায় এবং চট্টগ্রাম বিভাগের অনেক জায়গায় অস্থায়ী দমকা হাওয়াসহ হালকা থেকে মাঝারি ধরনের  বৃষ্টি হতে পারে। সেইসঙ্গে দেশের কোথাও কোথাও মাঝারি ধরনের ভারী বৃষ্টি হতে পারে। 

নদীবন্দরগুলোর সতর্কবার্তায় বলা হয়,  রাজশাহী, পাবনা, বগুড়া, ঢাকা, ফরিদপুর,  টাঙ্গাইল,  ময়মনসিংহ , সিলেট কুষ্টিয়া, যশোর,  খুলনা, বরিশাল, পটুয়াখালী,  নোয়াখালী, কুমিল্লা, চট্টগ্রাম ও কক্সবাজার অঞ্চলগুলোর ওপর দক্ষিণ-দক্ষিণ পূর্বদিক থেকে ঘণ্টায় ৪৫ থেকে ৬০ কিলোমিটার বেগে অস্থায়ী দমকা বা ঝড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টি বা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। এ জন্য এসব এলাকার বন্দরগুলোকে ১ নম্বর নৌ সতর্কতা সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে।

/এসএনএস/এমআর/

সম্পর্কিত

সাগরে আরেকটি লঘুচাপ, বৃষ্টি থাকতে পারে আরও দু’দিন

সাগরে আরেকটি লঘুচাপ, বৃষ্টি থাকতে পারে আরও দু’দিন

সমুদ্রবন্দরে ৩ ও নদীতে ১ নম্বর সতর্কতা সংকেত 

সমুদ্রবন্দরে ৩ ও নদীতে ১ নম্বর সতর্কতা সংকেত 

ভ্যাপসা গরমের পর বৃষ্টিতে স্বস্তি

ভ্যাপসা গরমের পর বৃষ্টিতে স্বস্তি

জাতীয় উন্নয়ন প্রশাসন অ্যাকাডেমি এখন জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের অধীনে

আপডেট : ১৯ অক্টোবর ২০২১, ১৮:৪৯

জাতীয় উন্নয়ন প্রশাসন অ্যাকাডেমি (নাডা) কে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের অধস্তন দফতর হিসেবে অন্তর্ভুক্ত করেছে সরকার। 

মঙ্গলবার (১৯ অক্টোবর) এ সংক্রান্ত একটি প্রজ্ঞাপন জারি করেছে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের সওব্য-২ শাখা।

জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের উপসচিব পুর্শিয়া আক্তারের সই করা আদেশে বলা হয়েছে, জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের গত ৪ আগস্টের প্রজ্ঞাপন অনুযায়ী, ‘‘পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়ের আওতায় প্রকল্পের মাধ্যমে বাস্তবায়নাধীন ‘জাতীয় উন্নয়ন প্রশাসন অ্যাকাডেমি’র প্রশাসনিক ও আর্থিক নিয়ন্ত্রণ জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের অধীন ন্যস্ত হওয়ায় যথাযথ কর্তৃপক্ষের অনুমোদনে নাডাকে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের অধস্তন দফতর হিসেবে অন্তর্ভুক্ত করা হলো।’’

 

/এসআই/এপিএইচ/

সম্পর্কিত

ধর্মীয় সহিংসতায় ক্ষতিগ্রস্তদের প্রতি সমবেদনা যুক্তরাষ্ট্রের

ধর্মীয় সহিংসতায় ক্ষতিগ্রস্তদের প্রতি সমবেদনা যুক্তরাষ্ট্রের

ড্রেনে পড়ে দু’জনের মৃত্যু, কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ চেয়ে আইনি নোটিশ

ড্রেনে পড়ে দু’জনের মৃত্যু, কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ চেয়ে আইনি নোটিশ

বিবিআইএন মোটর ভেহিকেল চুক্তি বাস্তবায়নে গুরুত্বারোপ পররাষ্ট্রমন্ত্রীর

বিবিআইএন মোটর ভেহিকেল চুক্তি বাস্তবায়নে গুরুত্বারোপ পররাষ্ট্রমন্ত্রীর

খুলনায় মন্দির ভাঙচুরের মামলায় তিন আসামির জামিন স্থগিত

খুলনায় মন্দির ভাঙচুরের মামলায় তিন আসামির জামিন স্থগিত

ধর্মীয় সহিংসতায় ক্ষতিগ্রস্তদের প্রতি সমবেদনা যুক্তরাষ্ট্রের

আপডেট : ১৯ অক্টোবর ২০২১, ১৮:১৫

সম্প্রতি দেশে ধর্মীয় সহিংসতার শিকার হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছে ঢাকায় যুক্তরাষ্ট্র দূতাবাস।

মঙ্গলবার (১৯ অক্টোবর) এক বার্তায় দূতাবাস থেকে জানানো হয়, ধর্ম পালনের স্বাধীনতা পবিত্র। আমাদের সবাইকে লক্ষ্য-নির্দিষ্ট সহিংসতা এবং পরিকল্পিত ঘৃণার বিরুদ্ধে অবিচল থাকতে হবে। কোনও ভয় ছাড়াই প্রত্যেকে যেন নিজ নিজ বিশ্বাসের ধর্মীয় আচার বা উৎসবে অংশ নিতে পারেন, তা নিশ্চিত করার জন্য কাজ করতে হবে।

মার্কিন দূতাবাস আরও জানায়, বৈচিত্র্য, ঐক্য এবং পারস্পরিক শ্রদ্ধা রক্ষার আহ্বান জানানো সকল বিশ্বাসের বাংলাদেশির পাশে আছে যুক্তরাষ্ট্র।

 

/এসএসজেড/এপিএইচ/

সম্পর্কিত

জাতীয় উন্নয়ন প্রশাসন অ্যাকাডেমি এখন জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের অধীনে

জাতীয় উন্নয়ন প্রশাসন অ্যাকাডেমি এখন জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের অধীনে

ড্রেনে পড়ে দু’জনের মৃত্যু, কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ চেয়ে আইনি নোটিশ

ড্রেনে পড়ে দু’জনের মৃত্যু, কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ চেয়ে আইনি নোটিশ

বিবিআইএন মোটর ভেহিকেল চুক্তি বাস্তবায়নে গুরুত্বারোপ পররাষ্ট্রমন্ত্রীর

বিবিআইএন মোটর ভেহিকেল চুক্তি বাস্তবায়নে গুরুত্বারোপ পররাষ্ট্রমন্ত্রীর

খুলনায় মন্দির ভাঙচুরের মামলায় তিন আসামির জামিন স্থগিত

খুলনায় মন্দির ভাঙচুরের মামলায় তিন আসামির জামিন স্থগিত

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

ছাত্রদলের ভারপ্রাপ্ত দফতর সম্পাদক আব্দুস সাত্তার কারাগারে

ছাত্রদলের ভারপ্রাপ্ত দফতর সম্পাদক আব্দুস সাত্তার কারাগারে

খুলনায় মন্দির ভাঙচুরের মামলায় তিন আসামির জামিন স্থগিত

খুলনায় মন্দির ভাঙচুরের মামলায় তিন আসামির জামিন স্থগিত

অনলাইনে ডলার কেনা-বেচা নিয়ন্ত্রণে আইনি নোটিশ

অনলাইনে ডলার কেনা-বেচা নিয়ন্ত্রণে আইনি নোটিশ

শপথ নিলেন হাইকোর্টে স্থায়ী হওয়া ৯ বিচারপতি

শপথ নিলেন হাইকোর্টে স্থায়ী হওয়া ৯ বিচারপতি

রাজধানীতে মাদকবিরোধী অভিযানে গ্রেফতার ৪৭

রাজধানীতে মাদকবিরোধী অভিযানে গ্রেফতার ৪৭

‘সাম্প্রদায়িক হামলা’: সারাদেশে ৭১ মামলা, গ্রেফতার ৪৫০

‘সাম্প্রদায়িক হামলা’: সারাদেশে ৭১ মামলা, গ্রেফতার ৪৫০

জাল ড্রাইভিং লাইসেন্স ও পাসপোর্ট তৈরির অভিযোগে গ্রেফতার এক

জাল ড্রাইভিং লাইসেন্স ও পাসপোর্ট তৈরির অভিযোগে গ্রেফতার এক

মাদক মামলায় প্রযোজক রাজসহ দুইজনের বিরুদ্ধে চার্জশিট

মাদক মামলায় প্রযোজক রাজসহ দুইজনের বিরুদ্ধে চার্জশিট

সামাজিক মাধ্যমে গুজব ছড়ানোর অভিযোগে আটক সাড়ে ৪শ’

সামাজিক মাধ্যমে গুজব ছড়ানোর অভিযোগে আটক সাড়ে ৪শ’

ইভ্যালির রাসেল-শামীমাসহ ১০ জনের বিরুদ্ধে আবারও মামলা

ইভ্যালির রাসেল-শামীমাসহ ১০ জনের বিরুদ্ধে আবারও মামলা

সর্বশেষ

১২ তলা অফিসার্স ক্লাব হচ্ছে বিমান বাহিনীর

১২ তলা অফিসার্স ক্লাব হচ্ছে বিমান বাহিনীর

পীরগঞ্জের ঘটনা পূর্বপরিকল্পিত: স্পিকার

পীরগঞ্জের ঘটনা পূর্বপরিকল্পিত: স্পিকার

চলতি মাসের ১৮ দিনে সাড়ে ৩ হাজার ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে

চলতি মাসের ১৮ দিনে সাড়ে ৩ হাজার ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে

এবার শার্লিনের বিরুদ্ধেই মামলা ঠুকছেন রাজ-শিল্পা

এবার শার্লিনের বিরুদ্ধেই মামলা ঠুকছেন রাজ-শিল্পা

পীরগঞ্জের ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য শুকনো খাবার-ঢেউটিন-নগদ টাকা বরাদ্দ

পীরগঞ্জের ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য শুকনো খাবার-ঢেউটিন-নগদ টাকা বরাদ্দ

© 2021 Bangla Tribune