X
রবিবার, ১৭ অক্টোবর ২০২১, ১ কার্তিক ১৪২৮

সেকশনস

দুই লাখ ৬০ হাজার ডলার বিনিয়োগ পেলো মার্চেন্টবে

আপডেট : ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৫:৩৫

প্রি-সিড রাউন্ডে দুই লাখ ৬০ হাজার ডলার অ্যাঞ্জেল ইনভেস্টমেন্ট পেয়েছে তৈরি পোশাক খাতের বিজনেস টু বিজনেস (বিটুবি) মার্কেটপ্লেস ও সফটওয়্যার সেবাবিষয়ক স্টার্ট-আপ মার্চেন্টবে। প্রি-সিড রাউন্ডের এই বিনিয়োগ মার্চেন্টবে তৈরি পোশাক খাতের জন্য বিশেষায়িত বিজনেস ইন্টেলিজন্স সলিউশান, স্মার্ট ফ্যাক্টরি ম্যানেজমেন্ট টুলস ও বহুমাত্রিক প্ল্যাটফর্ম সেবার উন্নয়নে ব্যবহার করবে।

এ বিষয়ে মার্চেন্টবের প্রধান নির্বাহী আবরার হোসেন সায়েম বলেন, তৈরি পোশাক খাতে গুণগত পরিবর্তন নিয়ে আসতে মার্চেন্টবের যাত্রা শুরু হয়েছে। এই বিনিয়োগ তৈরি পোশাক খাতের ডিজিটালাইজেশন নিয়ে আমাদের ধারণাগুলোর পূর্ণ বাস্তবায়ন করতে সহায়তা করবে। আশা করি, খুব দ্রুত মার্চেন্টবেকে বাংলাদেশের তৈরি পোশাক খাতের গুণগত পরিবর্তনের বড় প্রভাবক হিসেবে গড়ে তুলতে সক্ষম হব।

প্রসঙ্গত, বাংলাদেশের তৈরি পোশাক খাতের ডিজিটাইজেশান, সাপ্লাই চেইনের সংযোগ এবং বাংলাদেশ থেকে বৈশ্বিক বায়ারদের সোর্সিংকে সহজ করার স্বপ্ন নিয়ে ২০২০ সালে যাত্রা শুরু করে মার্চেন্টবে লিমিটেড। বর্তমানে মার্চেন্টবে এক হাজারেরও বেশি সাপ্লায়ারের একটি প্ল্যাটফর্ম।

বিগত এক বছর ধরে মার্চেন্টবে বাংলাদেশের সাপ্লায়ারদের ডিজিটাল লিটারেসি এবং তৈরি পোশাক খাতে প্রযুক্তি পণ্যের প্রয়োজনীয়তার স্থানগুলো চিহ্নিত করতে গবেষণা ও উন্নয়নের কাজ করে। করোনাকালে মার্চেন্টবে মার্কেটপ্লেসের মাধ্যমে অসংখ্য ব্যবসাপ্রতিষ্ঠানকে অনলাইনের মাধ্যমে সোর্সিংয়ের সেবা দিয়েছে।

করোনার সময়ে ডিজিটাল ট্রেড উইকের মাধ্যমে ৪০টি দেশের প্রতিনিধিদের সংযুক্ত করে। ডিজিটাল ট্রেড উইকে এক হাজার ৪০০ সাপ্লায়ার ও ৩০০ বায়ারকে সংযুক্ত করতে সক্ষম হয় মার্চেন্টবে। ৭৫টি পাবলিক ও প্রাইভেট সেশানের মাধ্যমে মার্চেন্টবে করোনাকালে করনীয়, ডিজিটাইজেশানের সুবিধা ও প্রয়োজনীয়তা এবং ব্যবসায়িক নানান দিক নিয়ে সাপ্লায়ার ও বায়ারদের সহযোগিতা প্রদান করে।

বর্তমানে তৈরি পোশাক খাতের জন্য বিশেষায়িত যোগাযোগ ও ব্যবস্থাপনা সফটওয়্যার সেবা এবং বিটুবি মার্কেটপ্লেস নির্মাণে কাজ করে যাচ্ছে মার্চেন্টবে। 

/এইচএএইচ/এনএইচ/

সম্পর্কিত

ক্লিন ফিড নিয়ে সম্প্রচারে ফিরলো জি বাংলা

ক্লিন ফিড নিয়ে সম্প্রচারে ফিরলো জি বাংলা

ইন্টারনেট স্বাভাবিক

ইন্টারনেট স্বাভাবিক

দেশে মোবাইল ইন্টারনেটে ‘ধীরগতি’

দেশে মোবাইল ইন্টারনেটে ‘ধীরগতি’

তারকাদের হয়রানি করে এমন কনটেন্ট মুছে দেবে ফেসবুক

তারকাদের হয়রানি করে এমন কনটেন্ট মুছে দেবে ফেসবুক

ক্লিন ফিড নিয়ে সম্প্রচারে ফিরলো জি বাংলা

আপডেট : ১৬ অক্টোবর ২০২১, ১৬:০৯

টানা দুই সপ্তাহ বন্ধ থাকার পর বিজ্ঞাপন ছাড়াই (ক্লিন ফিড) বাংলাদেশে সম্প্রচারে ফিরেছে জনপ্রিয় ভারতীয় টেলিভশন চ্যানেল জি বাংলা। কেবল অপারেটরস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (কোয়াব) সভাপতি আনোয়ার পারভেজ এ তথ্য জানিয়েছেন।

আজ শনিবার (১৬ অক্টোবর) তিনি বাংলা ট্রিবিউনকে জানান, ভারতের স্যাটেলাইট টিভি চ্যানেল জি বাংলা ক্লিন ফিড দেওয়ায় গতকাল শুক্রবার (১৫ অক্টোবর) থেকে দেশে সম্প্রচার শুরু হয়েছে। ‘কালার্স’ নামে আরেকটি চ্যানেলও শিগগিরই ক্লিন ফিড নিয়ে বাংলাদেশে সম্প্রচার শুরু করবে। আরও বেশ করেকটি চ্যানেল ক্লিন ফিড নিয়ে সম্পচারে আসছে বলেও জানান তিনি। 

কোয়াব সভাপতি বলেন, বিদেশি চ্যানেলের সম্প্রচারে আসতে গেলে শর্ত একটাই ক্লিন ফিড (বিজ্ঞাপন মুক্ত) হতেই হবে। ক্লিন ফিড না হলে আমরা আমাদের নেটওয়ার্কে সেই টিভি চালু করবো না।

সম্প্রচারের ফাঁকে বিজ্ঞাপনের সময় এখন এমন নোটিশ দেখা যাচ্ছে চ্যানেলটিতে (ছবি: বাংলা ট্রিবিউন)

বাংলাদেশের আইনে অনুষ্ঠানের ফাঁকে বিজ্ঞাপন প্রচার করে- এমন বিদেশি টেলিভিশন চ্যানেল সম্প্রচার করার সুযোগ নেই। বেশ আগে থেকেই এসব চ্যানেলে দেশে সম্প্রচার বন্ধ করার কথা বলা হলেও সম্প্রতি এ বিষয়ে কঠোর হয় সরকার। গত ১৩ সেপ্টেম্বর তথ্য মন্ত্রণালয় থেকে পরিপত্র জারি করা হয়। এর পরিপ্রেক্ষিতে ১ অক্টোবর থেকে বিদেশি চ্যানেলগুলোর সম্প্রচার বন্ধ করা হয়। তবে সরকারি সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নে চ্যানেল বন্ধ করতে গিয়ে ক্লিন ফিডের চ্যানেলগুলোও বন্ধ হয়ে যায়।

পরে গত ৫ অক্টোবর সব চ্যানেল বন্ধ না রেখে বিজ্ঞাপনবিহীন (ক্লিন ফিড) বিদেশি টিভি চ্যানেলে বা অনুষ্ঠান সম্প্রচারের নির্দেশ দেয় তথ্য মন্ত্রণালয়। ক্যাবল অপারেটরস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (কোয়াব) প্রশাসকসহ সংশ্লিষ্টদের একটি চিঠি দেয় তথ্য মন্ত্রণালয়। এরপর থেকে বাংলাদেশে ক্লিন-ফিড দেয় এমন কিছু চালু করার কথা জানায় কোয়াব। এবার সে তালিকায় যুক্ত হলো জি বাংলা। 

/এইচএএইচ/ইউএস/

ইন্টারনেট স্বাভাবিক

আপডেট : ১৫ অক্টোবর ২০২১, ২১:০৮

দেশে মোবাইল ইন্টারনেট স্বাভাবিক হয়েছে। এর আগে আজ ভোর ঠিক ৫টায় ইন্টারনেটের ধীরগতি লক্ষ করা গেছে। 

আইআইজি ফোরামের মহাসচিব আহমেদ জুনায়েদ শুক্রবার (১৫ অক্টোবর) জানান, বিকাল ৪টা ১৩ মিনিটে ইন্টারনেট স্বাভাবিক হয়েছে। 

গতকাল বৃহস্পতিবার (১৪ অক্টোবর) দিবাগত মধ্যরাত থেকে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমসহ সব ধরনের ওয়েবসাইট ব্রাউজিংয়ে সমস্যা পাচ্ছেন বলে অভিযোগ করেছেন ব্যবহারকারীরা। অনেকেই জরুরি ই-মেইলও চেক করতে পারছেন না বলে জানিয়েছেন। তবে ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট যথারীতি ব্যবহার করা যাচ্ছে।

প্রসঙ্গত, দেশে মোবাইল ইন্টারনেট ব্যবহারকারী প্রায় সাড়ে ১১ কোটি আর ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা ১ কোটির কিছু বেশি।

 

/এইচএএইচ/এনএইচ/এমওএফ/

সম্পর্কিত

ক্লিন ফিড নিয়ে সম্প্রচারে ফিরলো জি বাংলা

ক্লিন ফিড নিয়ে সম্প্রচারে ফিরলো জি বাংলা

দেশে মোবাইল ইন্টারনেটে ‘ধীরগতি’

দেশে মোবাইল ইন্টারনেটে ‘ধীরগতি’

তারকাদের হয়রানি করে এমন কনটেন্ট মুছে দেবে ফেসবুক

তারকাদের হয়রানি করে এমন কনটেন্ট মুছে দেবে ফেসবুক

এবার মোবাইল ফোনের টাওয়ার খাতে এসএমপি

এবার মোবাইল ফোনের টাওয়ার খাতে এসএমপি

দেশে মোবাইল ইন্টারনেটে ‘ধীরগতি’

আপডেট : ১৫ অক্টোবর ২০২১, ১৭:৪৬

দেশে মোবাইল ইন্টারনেটে ধীরগতি পাওয়া যাচ্ছে বলে অভিযোগ করছেন ব্যবহারকারীরা। গতকাল বৃহস্পতিবার (১৪ অক্টোবর) দিবাগত মধ্যরাত থেকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমসহ সবধরনের ওয়েবসাইট ব্রাউজিংয়ে সমস্যা পাচ্ছেন তারা। অনেকেই জরুরি ই-মেইলও চেক করতে পারছেন না বলে জানিয়েছেন। তবে ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট যথারীতি ব্যবহার করা যাচ্ছে।

মোবাইল ইন্টারনেটে ধীরগতি করা হয়েছে কি না এ বিষয়ে জানতে চাইলে বিটিআরসির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান সুব্রত রায় মৈত্র বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘টেকনিক্যাল ফল্টের কারণে এমনটা হয়ে থাকতে পারে। আমরা কিছু করিনি।’

শুক্রবার (১৫ অক্টোবর) সকালে এনটিটিএন ও আইআইটি প্রতিষ্ঠান ফাইবার অ্যাড হোমের চিফ স্ট্র্যাটেজিক অফিসার সুমন আহমেদ সাবির জানান, ‘মোবাইল ইন্টারনেট ব্যবহার করতে পারছি না। তবে ব্রডব্যান্ড লাইন চালু আছে। ব্রডব্যান্ড ব্যবহার করে সবধরনের সাইট ব্রাউজও করা যাচ্ছে।’

প্রসঙ্গত, দেশে মোবাইল ইন্টারনেট ব্যবহারকারী প্রায় সাড়ে ১১ কোটি আর ব্রন্ডব্যান্ড ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা ১ কোটির কিছু বেশি।

/এইচএএইচ/ইউএস/

সম্পর্কিত

কবে বেঁধে দেওয়া হবে মোবাইল ইন্টারনেটের দাম?

কবে বেঁধে দেওয়া হবে মোবাইল ইন্টারনেটের দাম?

তারকাদের হয়রানি করে এমন কনটেন্ট মুছে দেবে ফেসবুক

আপডেট : ১৪ অক্টোবর ২০২১, ১৮:১৮

তারকা বা বিখ্যাত ব্যক্তিদের যৌন হয়রানি করে এমন কনটেন্ট মুছে দেবে ফেসবুক। সম্প্রতি এমনই একটি ঘোষণা দিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি। তারা তাদের ‘বুলিং অ্যান্ড হ্যারাসমেন্ট’ পলিসিতে এই সংক্রান্ত কিছু পরিবর্তন এনেছে। কোনও ব্যবহারকারীর বিরুদ্ধে সমন্বিত আক্রমণের ক্ষেত্রেও পলিসিতে পরিবর্তন এসেছে।

ফেসবুক জানায়, জনপ্রিয় তারকা, রাজনীতিবিদ এবং কনটেন্ট ক্রিয়েটর এমন কাউকে যৌন হয়রানি করার মতো প্রোফাইল, পেজ, গ্রুপ এবং ইভেন্ট এমন যেকোনও কিছুই মুছে দিবে তারা।

গত বুধবার (১৩ অক্টোবর) প্রতিষ্ঠানটির বৈশ্বিক নিরাপত্তা প্রধান অ্যান্টিগোন ডেভিস তার একটি ব্লগপোস্টে বলেন, নতুন এই পলিসিতে যৌন হয়রানি করার মতো ফটোশপে করা ছবি, ড্রইং অথবা শারীরিক কোনও অঙ্গভঙ্গির ছবি প্রকাশের মতো বিষয়গুলো অন্তর্ভুক্ত রয়েছে। এছাড়া যৌন হয়রানি করে এমন কমেন্ট এবং ধারাবাহিকভাবে কাউকে আক্রমণ করা এসব বিষয়ও আছে পলিসিতে।

ডেভিস আরও বলেন, বিভিন্ন ক্ষেত্রের তারকারা ফেসবুক এবং ইনস্টাগ্রাম ব্যবহার করেন মূলত তাদের গণসংযোগ বাড়ানোর জন্য। কিন্তু সেখানে তাদের বিরুদ্ধে আক্রমণ অনেকটাই তাদের বিরুদ্ধে অস্ত্র দাঁড় করানোর মতো যা আসলে অপ্রয়োজনীয় এবং অপ্রাসঙ্গিক।

পলিসিতে এও বলা আছে ‑ এমন কোনও আক্রমণ যা তাদের সরাসরি বিপদের কারণ হতে পারে, এমন কি তা যদি ফেসবুকের কনটেন্ট পলিসিকে লঙ্ঘন করে না এমন কিছু্‌ও হয় তাহলেও তা বাতিল করা হবে। এই পলিসি ফেসবুক এবং ইনস্টাগ্রাম উভয়ের পোস্ট এবং মেসেজ দুই ক্ষেত্রেই কার্যকর হবে।

/এইচএএইচ/এমএস/

সম্পর্কিত

ফেসবুক পেজ জনপ্রিয় করার ১০টি টিপস

ফেসবুক পেজ জনপ্রিয় করার ১০টি টিপস

প্রোডাক্ট ডেভেলপমেন্টে ধীরগতি আনলো ফেসবুক

প্রোডাক্ট ডেভেলপমেন্টে ধীরগতি আনলো ফেসবুক

ফেসবুক বিভ্রাটে টেলিগ্রামে ৭ কোটি নতুন গ্রাহক

ফেসবুক বিভ্রাটে টেলিগ্রামে ৭ কোটি নতুন গ্রাহক

ভিডিও কলিং ডিভাইসের নতুন মডেল আনলো ফেসবুক

ভিডিও কলিং ডিভাইসের নতুন মডেল আনলো ফেসবুক

এবার মোবাইল ফোনের টাওয়ার খাতে এসএমপি

আপডেট : ১৪ অক্টোবর ২০২১, ১৫:১৭

তথ্যপ্রযুক্তি ও টেলিযোগাযোগ খাতে একচেটিয়া ব্যবসা করতে না পারা, কেউ যাতে পুরো বাজার দখল করতে না পারে সেজন্য নিয়ন্ত্রক সংস্থা- বিটিআরসি আবারও নিয়ন্ত্রণের উদ্যোগ নিয়েছে। যে প্রতিষ্ঠান এই কাজ করবে তাকে এসএমপি (সিগনিফিকেন্ট মার্কেট পাওয়ার) ঘোষণা করবে সংস্থাটি। জানা গেছে, এবার মোবাইল ফোনের টাওয়ার খাতে আসছে এসএমপি। একটি মোবাইল টাওয়ার একচেটিয়া ব্যবসা করছে এ খাতে। প্রতিষ্ঠানটি যাতে না করতে পারে এবং এ খাতের সবার জন্য সমান সুযোগ নিশ্চিত করতে এই উদ্যোগ নিয়েছে সরকার।

প্রসঙ্গত, ২০১৯ সালের নভেম্বরে সিগনিফিকেন্ট মার্কেট পাওয়ার (এসএমপি) প্রবিধান ঘোষণা করে বিটিআরসি। এর অর্থ হলো নির্দিষ্ট সীমার ওপরে কেউ গেলে তাকে আটকে ফেলা। বিটিআরসির প্রবিধানের আওতায় প্রথমেই পড়ে দেশের শীর্ষ মোবাইল ফোন অপারেটর গ্রামীণফোন। ওই বছরের ১০ ফেব্রুয়ারি গ্রামীণফোনকে এসএমপি ঘোষণা করে বিটিআরসি। মূলত, টেলিযোগাযোগ খাতে কোনও প্রতিষ্ঠানের একচেটিয়া ব্যবসা নিয়ন্ত্রণে পদক্ষেপ নিতেই এই উদ্যোগ।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, একটি টাওয়ার কোম্পানি এই খাতে একচেটিয়া ব্যবসা করছে। প্রায় ৯০ শতাংশ মার্কেট শেয়ার ওই প্রতিষ্ঠানটির। এই ধরনের ‘মনোপলি’ ঠেকাতে ওই টাওয়ার প্রতিষ্ঠানকে এসএমপি ঘোষণা করা হচ্ছে। সূত্র জানাচ্ছে প্রতিষ্ঠানটির নাম ইডটকো। এর টাওয়ারের সংখ্যা প্রায় ৭ হাজার।

এ বিষয় জানতে চাইলে ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার বলেন, একটি কোম্পানি একাই ৯০ ভাগ ব্যবসা নিয়ে যাবে, তা হতে পারে না। টাওয়ার খাতে লাইসেন্স পাওয়া আরও প্রতিষ্ঠান আছে। সেসব প্রতিষ্ঠান ব্যবসা না পেলে তো মারা যাবে। আমরা আজ (১১ অক্টোবর) একটি এসএমপির অনুমোদন দিয়েছি। শিগগিরই বিটিআরসি থেকে এটির ঘোষণা আসবে।

মন্ত্রী বলেন, আমরা একে একে সব খাতে বিষয়টি (এসএমপি) প্রয়োগ করবো। ৪০ শতাংশের ওপরে কোনও প্রতিষ্ঠান বাজার দখল করলে তাকে এসএমপি ঘোষণা করা হবে। আইটিসি (ইন্টারন্যাশনাল টেরেস্ট্রিয়াল ক্যাবল), আইআই জি (ইন্টারন্যাশনাল ইন্টারনেট গেটওয়ে), আইজিডাব্লিউ (ইন্টারন্যাশনাল গেটওয়ে), আইএসপি (ইন্টারনেট সার্ভিস প্রোভাইডার) ইত্যাদি খাতেও তো এক চেটিয়া ব্যবসা হচ্ছে। সেসব খাতে কোনও উদ্যোগ নেওয়া হবে কিনা জানতে চাইলে মন্ত্রী বলেন, আমাদের দৃষ্টিতে বিষয়টি আছে। আমরা পুরো খাতেই নজর রেখেছি।

এসএমপি বিষয়ে জানতে চাইলে বিটিআরসির ভাইস চেয়ারম্যান সুব্রত রায় মৈত্র বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, মোবাইল ফোনের টাওয়ার নিয়ে এসএমপির বিষয়ে নীতিগত সিদ্ধান্ত হয়েছে। আমরা বিষয়টি নিয়ে কাজ করছি। কোনও প্রতিষ্ঠান যাতে এককভাবে বাজার দখল করতে না পারে, বাজারে মনোপলি করতে না পারে সেজন্যই এই উদ্যোগ। এসএমপির মাধ্যমে টাওয়ার খাতে লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড নিশ্চিত করা হবে।

যা আছে প্রবিধানে

বিটিআরসি ২০১৯ সালের নভেম্বরে এসএমপি প্রবিধান ঘোষণা করে। প্রবিধানের ৭ (১১) ধারা অনুযায়ী, তিনটি নিয়ামকের একটি যদি ৪০ ভাগের বেশি থাকে তাহলে সেই প্রতিষ্ঠান এসএমপি ঘোষিত হবে। ক্যাটাগরি তিনটি হলো- গ্রাহক, অর্জিত রাজস্ব ও তরঙ্গ।

টাওয়ার কোম্পানির সংখ্যা

দেশে মোবাইল নেটওয়ার্ক টাওয়ার অবকাঠামো ভাগাভাগি সংক্রান্ত টাওয়ার শেয়ারিং লাইসেন্স দিয়েছে ইডটকো বাংলাদেশ কোম্পানি লিমিডেট, সামিট টাওয়ার লিমিটেড, কীর্তনখোলা টাওয়ার বাংলাদেশ লিমিটেড এবং এবি হাইটেক কনসোর্টিয়াম লিমিটেডকে।

সংশ্লিষ্টরা বলছেন, দেশে আইটিসির লাইসেন্স রয়েছে ছয়টি প্রতিষ্ঠানের। কিন্তু একচেটিয়া ব্যবসা করছে দু’টি প্রতিষ্ঠান। চারটির অবস্থা খুব খারাপ। তাদের টিকিয়ে রাখতে হবে। তারা আরও বলেন, দেশে এখন ২৭টি আইআইজি সক্রিয় আছে, যদিও লাইসেন্স পাওয়ার সংখ্যা আরও বেশি। এর মধ্যে মাত্র ৮-১০টা প্রতিষ্ঠানের দখলে দেশের মোট ব্যবহার হওয়া (২৬০০ জিবিপিএস) ব্যান্ডউইথের বড় একটা অংশ। অপারেটরগুলো বাঁচিয়ে রাখতে হলে সরকারকেই উদ্যোগ নিতে হবে। আইএসপিতেও একই অবস্থা। এসব সমস্যার সমাধান দিতে পারবে এসএমপির ঘোষণা।

/এমআর/ইউএস/

সম্পর্কিত

৫৫ লাখ অবৈধ মোবাইল ফোনের কী হবে?

৫৫ লাখ অবৈধ মোবাইল ফোনের কী হবে?

৫ দিনে অবৈধ চিহ্নিত দুই লাখ মোবাইল ফোন

৫ দিনে অবৈধ চিহ্নিত দুই লাখ মোবাইল ফোন

বন্ধের তালিকায় ১ লাখ ২৫ হাজার মোবাইল ফোন

বন্ধের তালিকায় ১ লাখ ২৫ হাজার মোবাইল ফোন

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

ক্লিন ফিড নিয়ে সম্প্রচারে ফিরলো জি বাংলা

ক্লিন ফিড নিয়ে সম্প্রচারে ফিরলো জি বাংলা

ইন্টারনেট স্বাভাবিক

ইন্টারনেট স্বাভাবিক

দেশে মোবাইল ইন্টারনেটে ‘ধীরগতি’

দেশে মোবাইল ইন্টারনেটে ‘ধীরগতি’

তারকাদের হয়রানি করে এমন কনটেন্ট মুছে দেবে ফেসবুক

তারকাদের হয়রানি করে এমন কনটেন্ট মুছে দেবে ফেসবুক

এবার মোবাইল ফোনের টাওয়ার খাতে এসএমপি

এবার মোবাইল ফোনের টাওয়ার খাতে এসএমপি

ওয়ালটনের ডুয়াল ব্যান্ডের রাউটার

ওয়ালটনের ডুয়াল ব্যান্ডের রাউটার

সড়ক দুর্ঘটনা অর্ধেকে নামিয়ে আনবে কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা প্রযুক্তি

সড়ক দুর্ঘটনা অর্ধেকে নামিয়ে আনবে কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা প্রযুক্তি

৫৫ লাখ অবৈধ মোবাইল ফোনের কী হবে?

৫৫ লাখ অবৈধ মোবাইল ফোনের কী হবে?

নকিয়ার কারখানায় উৎপাদন শুরু, আসছে শাওমিও

নকিয়ার কারখানায় উৎপাদন শুরু, আসছে শাওমিও

সাশ্রয়ীমূল্যে ফাইভ-জি ফোন দিতে চায় মটোরোলা

সাশ্রয়ীমূল্যে ফাইভ-জি ফোন দিতে চায় মটোরোলা

সর্বশেষ

ফেনীতে ত্রিমুখী সংঘর্ষ, আহত ৩০

ফেনীতে ত্রিমুখী সংঘর্ষ, আহত ৩০

ফরিদা মজিদের কথা

ফরিদা মজিদের কথা

রাজধানীর নিকুঞ্জ থেকে চিকিৎসকের লাশ উদ্ধার

রাজধানীর নিকুঞ্জ থেকে চিকিৎসকের লাশ উদ্ধার

দিনে মনোনয়নপত্র জমা, রাতে গুলিতে আ.লীগ প্রার্থীর মৃত্যু

দিনে মনোনয়নপত্র জমা, রাতে গুলিতে আ.লীগ প্রার্থীর মৃত্যু

বাণিজ্য, নিরাপত্তা ও জলবায়ু ইস্যু গুরুত্ব পাবে

প্যারিসে হাসিনা-ম্যাখোঁর বৈঠকবাণিজ্য, নিরাপত্তা ও জলবায়ু ইস্যু গুরুত্ব পাবে

© 2021 Bangla Tribune