X
বুধবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০২১, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

সেকশনস

‌‘আধুনিক চিকিৎসায় বিনিয়োগ করবে পুলিশ কল্যাণ ট্রাস্ট’

আপডেট : ০৭ অক্টোবর ২০২১, ১৬:০১

আধুনিক চিকিৎসার উন্নয়নের ওপর গুরুত্বারোপ করেছেন পুলিশ মহাপরিদর্শক (আইজিপি) বেনজীর আহমেদ। তিনি বলেন, ‘দেশের চিকিৎসা ব্যবস্থা আধুনিকায়নে ৫০ ভাগ বিদেশি এক্সপার্ট প্রয়োজন।

দেশে আধুনিক চিকিৎসা ব্যবস্থা থাকলে মানুষ অন্যদেশে যাবে না। চিকিৎসার জন্য বিভিন্ন দেশে যাওয়ায় বিপুল পরিমাণ মেডিক্যাল ট্যুরিজমের মাধ্যমে দেশের টাকা বিদেশে চলে যাচ্ছে। আধুনিক চিকিৎসা হলে দেশের টাকা দেশেই থাকবে। আধুনিক হাসপাতাল তৈরিতে সম্ভব হলে পুলিশ কল্যাণ ট্রাস্ট বিনিয়োগ করবে।’

বৃহস্পতিবার (৭ অক্টোবর) দুপুরে রাজধানীর দক্ষিণ কেরানীগঞ্জে মাদকাসক্তি নিরাময় ও মানসিক স্বাস্থ্য পরামর্শ কেন্দ্র (ওয়েসিস) এর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে সভাপতির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

বেনজীর আহমেদ বলেন, ‘আমরা চিকিৎসার জন্য ব্যাংকক-সিঙ্গাপুর-মালয়েশিয়া যাই। আধুনিক চিকিৎসা ব্যবস্থা আমাদের দেশে গড়ে তোলা যেতে পারে। এর জন্য বেস্ট ইকুইপমেন্ট জোগাড় করা কঠিন ব্যাপার নয়। সমস্যা হয় বেস্ট পারসন জোগাড় করা। স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী ও মহাপরিচালক মহোদয় যদি ৫০ ভাগ বিদেশি এক্সপার্ট জোগাড় করতে পারেন তবেই হবে।’

তিনি বলেন, ‘পুলিশ সদস্যদের মধ্যে কিডনিজনিত, হার্ট ও ক্যানসারে আক্রান্ত রোগী রয়েছে। ক্যানসার চিকিৎসা অনেক ব্যয়বহুল, সেজন্য আমরা রাজারবাগ হাসপাতালে একটি ক্যানসার ইউনিট করতে চাই।’

পুলিশ প্রধান বলেন, ‘মাদকে যারা আসক্ত হয়, তাদের পরিবারের যে দুর্দশা হয় তা দেখার দুর্ভাগ্য হয়েছে অনেকবার। এই সমাজের অনেক সম্মানীয় ব্যক্তির গোপন কান্না দেখতে হয়েছে আমাদের। সেগুলো ছিল এত কষ্টের যা কারও সঙ্গে শেয়ার করতে পারছিলেন না। কিন্তু আমাদের সঙ্গে শেয়ার করেছেন। এনজিও সংস্থাসহ মাদক নিয়ে যারা কাজ করেন, তারা বলছেন দেশে মাদকাসক্তের সংখ্যা ৫০ লাখ, আবার অনেকে বলছেন এক কোটি ছাড়িয়ে গেছে। ২০১৮ সালে জনস্বাস্থ্য ইনস্টিটিউটের এক পরিসংখ্যান বলেছিল ৩৬ লাখ। এই মাদকাসক্তদের চিকিৎসার জন্য সরকারি ও বেসরকারিভাবে প্রচলিত চিকিৎসা কেন্দ্রগুলোতে ৭ হাজার বেড দিয়ে আমরা কীভাবে চিকিৎসা করবো।’

বেনজীর আহমেদ বলেন, ‘কোনও মাদকই কিন্তু দেশে তৈরি হয় না। ফেনসিডিল, ইয়াবা প্রতিবেশী দেশ থেকে বাংলাদেশে ঢোকে। আইসও প্রতিবেশী দেশ থেকে ঢোকে। পশ্চিমাদেশগুলো থেকে কুরিয়ার সার্ভিসের মাধ্যমে বিভিন্নভাবে আমাদের দেশে আসে। মাদক নিয়ন্ত্রণে বা প্রতিরোধ করতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর পাশাপাশি আরও অনেকেই কাজ করে যাচ্ছে। ডিমান্ড থাকলে কোনও না কোনোভাবে সাপ্লাই হবেই। মাদকসেবীদের সংখ্যার ওপর তার সাপ্লাই ডিপেন্ড করে। ডিমান্ড কাট করতে হলে মাদকাসক্তদের পুনর্বাসন করতে হবে।’

 

/আরটি/আইএ/

সম্পর্কিত

সহকারী পুলিশ সুপার পদে নিয়োগের ক্ষেত্রে পরিবর্তন আনা হবে: আইজিপি

সহকারী পুলিশ সুপার পদে নিয়োগের ক্ষেত্রে পরিবর্তন আনা হবে: আইজিপি

উন্নত দেশের মতো পুলিশ গড়ে তুলতেই নতুন নিয়মে কনস্টেবল নিয়োগ: আইজিপি

উন্নত দেশের মতো পুলিশ গড়ে তুলতেই নতুন নিয়মে কনস্টেবল নিয়োগ: আইজিপি

তুরস্কের পুলিশ প্রধানের সঙ্গে আইজিপির সাক্ষাৎ

তুরস্কের পুলিশ প্রধানের সঙ্গে আইজিপির সাক্ষাৎ

বাংলাদেশ পুলিশের প্রশংসা করলেন জাতিসংঘের সহকারী মহাসচিব

বাংলাদেশ পুলিশের প্রশংসা করলেন জাতিসংঘের সহকারী মহাসচিব

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

সহকারী পুলিশ সুপার পদে নিয়োগের ক্ষেত্রে পরিবর্তন আনা হবে: আইজিপি

সহকারী পুলিশ সুপার পদে নিয়োগের ক্ষেত্রে পরিবর্তন আনা হবে: আইজিপি

উন্নত দেশের মতো পুলিশ গড়ে তুলতেই নতুন নিয়মে কনস্টেবল নিয়োগ: আইজিপি

উন্নত দেশের মতো পুলিশ গড়ে তুলতেই নতুন নিয়মে কনস্টেবল নিয়োগ: আইজিপি

তুরস্কের পুলিশ প্রধানের সঙ্গে আইজিপির সাক্ষাৎ

তুরস্কের পুলিশ প্রধানের সঙ্গে আইজিপির সাক্ষাৎ

বাংলাদেশ পুলিশের প্রশংসা করলেন জাতিসংঘের সহকারী মহাসচিব

বাংলাদেশ পুলিশের প্রশংসা করলেন জাতিসংঘের সহকারী মহাসচিব

দুর্গাপূজায় সর্বোচ্চ নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে আইজিপির নির্দেশ

দুর্গাপূজায় সর্বোচ্চ নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে আইজিপির নির্দেশ

নতুন নিয়মে শিগগিরই এসআই ও সার্জেন্ট পদে নিয়োগ: আইজিপি

নতুন নিয়মে শিগগিরই এসআই ও সার্জেন্ট পদে নিয়োগ: আইজিপি

পুলিশের ঘা সারাতে চিকিৎসা চলছে: আইজিপি

পুলিশের ঘা সারাতে চিকিৎসা চলছে: আইজিপি

পুলিশের কল্যাণে বহুমুখী পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে: আইজিপি

পুলিশের কল্যাণে বহুমুখী পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে: আইজিপি

বৃক্ষরোপণের মাধ্যমে দেশকে সবুজ করার আহ্বান আইজিপি’র

বৃক্ষরোপণের মাধ্যমে দেশকে সবুজ করার আহ্বান আইজিপি’র

জাতীয় শোক দিবসে সর্বোচ্চ নিরাপত্তা নিশ্চিত করার নির্দেশ আইজিপির

জাতীয় শোক দিবসে সর্বোচ্চ নিরাপত্তা নিশ্চিত করার নির্দেশ আইজিপির

সর্বশেষ

সাংবাদিক খাশোগি হত্যাকাণ্ডে ফ্রান্সে সৌদির নাগরিক গ্রেফতার

সাংবাদিক খাশোগি হত্যাকাণ্ডে ফ্রান্সে সৌদির নাগরিক গ্রেফতার

নমুনা না দিয়েই করোনা নেগেটিভ সার্টিফিকেট পেলেন তিন বিদেশগামী

নমুনা না দিয়েই করোনা নেগেটিভ সার্টিফিকেট পেলেন তিন বিদেশগামী

মেসি-এমবাপ্পের জোড়ায় ব্রুজকে উড়িয়ে  দিলো পিএসজি, হেরেছে ম্যান সিটি

মেসি-এমবাপ্পের জোড়ায় ব্রুজকে উড়িয়ে দিলো পিএসজি, হেরেছে ম্যান সিটি

৬ রোহিঙ্গাকে হত্যা, একজনের স্বীকারোক্তি

৬ রোহিঙ্গাকে হত্যা, একজনের স্বীকারোক্তি

প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে কটূক্তি: আলালের বিরুদ্ধে ঢাবি শিক্ষার্থীদের অভিযোগ ও জিডি

প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে কটূক্তি: আলালের বিরুদ্ধে ঢাবি শিক্ষার্থীদের অভিযোগ ও জিডি

© 2021 Bangla Tribune