X
মঙ্গলবার, ০৭ ডিসেম্বর ২০২১, ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

সেকশনস

‘অপসংস্কৃতির বিরুদ্ধে সামাজিকভাবে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে’

আপডেট : ২৭ অক্টোবর ২০২১, ১৭:০৮

ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র মো. আতিকুল ইসলাম বলেছেন, সকল অপসংস্কৃতির বিরুদ্ধে সামাজিকভাবে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে।

বুধবার (২৭ অক্টোবর) সকালে রাজধানীর উত্তরায় রাজউক উত্তরা মডেল কলেজে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটেলিয়ান-র‌্যাব  আয়োজিত ‘কিশোর গ্যাং অপসংস্কৃতি এবং আমাদের করণীয়’ শীর্ষক সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি একথা বলেন।

ডিএনসিসি মেয়র বলেন, ‘‘আজকের কিশোররাই আগামীর ভবিষ্যৎ। আগামীতে তারাই রাষ্ট্র পরিচালনা করবে। তাই তাদেরকে সঠিক পথ দেখানো সবার নৈতিক দায়িত্ব। কিশোর অপরাধ নিয়ন্ত্রণে নির্ধারিত স্লোগান ‘সবার হোক একটাই পণ, কিশোর অপরাধ করবো দমন’, যা সময়োপযোগী ও অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ।’’

তিনি আরও বলেন, ‘প্রত্যেক মা-বাবাকে তার সন্তান কার সঙ্গে মিশে, শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে নিয়মিত যায় কিনা, পড়াশোনা ঠিকমতো করে কিনা, যথাসময়ে বাসায় ফিরে কিনা, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান প্রদত্ত যাবতীয় শিক্ষা কার্যক্রম সঠিকভাবে সম্পাদন করে কিনা, কোনও ধরনের মাদক গ্রহণ করে কিনা এবং প্রয়োজনের অতিরিক্ত খরচ করে কিনা— এসব বিষয়ে খেয়াল রাখতে হবে।’

মেয়র বলেন, ‘ধ্বংসের তলানিতে পৌঁছানোর আগেই কিশোর অপরাধী ও গ্যাং অপসংস্কৃতি নির্মূলে পর্যাপ্ত সংশোধন ব্যবস্থা, কাউন্সেলিং, পরিবার ও সমাজের যথোপযুক্ত মনোযোগসহ প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ অপরিহার্য।’

আতিকুল ইসলাম বলেন, ‘ফেসবুকসহ সব ধরনের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোকে যথাযথ প্রক্রিয়ায় নিয়মিত মনিটরিংয়ের ব্যবস্থা করতে হবে। পরিবারসহ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোতে কিশোরদেরকে দেশীয় সংস্কৃতি চর্চায় আগ্রহী করে তুলতে হবে। বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়ে তুলতে হলে কিশোরদেরকে সুশিক্ষা গ্রহণের মাধ্যমে সুনাগরিক হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হতে হবে।’

র‌্যাব-১ এর অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল আব্দুল্লাহ আল মোমেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সেমিনারে অন্যান্যের মধ্যে রাজউক উত্তরা মডেল কলেজের অধ্যক্ষ ব্রিগেডিয়ার জেনারেল তায়েফ উল হক উপস্থিত ছিলেন।

 

/এসএস/এপিএইচ/

সম্পর্কিত

পার্বত্য চুক্তি পূর্ণ বাস্তবায়নের দাবি বিশিষ্টজনদের

পার্বত্য চুক্তি পূর্ণ বাস্তবায়নের দাবি বিশিষ্টজনদের

জাপানি দুই শিশুকে নিয়ে আপিল শুনানি ১২ ডিসেম্বর

জাপানি দুই শিশুকে নিয়ে আপিল শুনানি ১২ ডিসেম্বর

হাফ ভাড়া তদারকিতে মালিক সমিতির ৯ টিম

হাফ ভাড়া তদারকিতে মালিক সমিতির ৯ টিম

শ্যাডো ইকোনমিক সেক্রেটারি হলেন টিউলিপ

শ্যাডো ইকোনমিক সেক্রেটারি হলেন টিউলিপ

‘সংবাদপত্র রুগ্ন হয়ে পড়েছে’

আপডেট : ০৭ ডিসেম্বর ২০২১, ২০:৪১

সংবাদপত্র মালিকদের সংগঠন নিউজপেপার্স ওনার্স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (নোয়াব) সভাপতি এ কে আজাদ বলেছেন, সংবাদপত্র শিল্প এখন রুগ্ন হয়ে পড়েছে। এর অন্যতম কারণ কাগজের উচ্চমূল্য। এ ছাড়া বেতন-ভাতাসহ অন্য খরচও বেড়েছে। এমন পরিস্থিতিতে সংবাদপত্র শিল্পে সহযোগিতা দরকার।

মঙ্গলবার (৭ ডিসেম্বর) রাজধানীর সোনারগাঁও হোটেলে ব্যবসায়ীদের শীর্ষ সংগঠন ফেডারেশন অব বাংলাদেশ চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিজ (এফবিসিসিআই) আয়োজিত দেশের সার্বিক অর্থনৈতিক উন্নয়ন ও অগ্রযাত্রায় গণমাধ্যমের ভূমিকা, সমস্যা ও সম্ভাবনা নিয়ে নোয়াবের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

এ কে আজাদ বলেন, সংবাদপত্রের আয় বাড়েনি, বিজ্ঞাপন কমে গেছে। এখন বিজ্ঞাপনে ডিসকাউন্টও দিতে হচ্ছে অনেক। পত্রিকা বিক্রি ও বিজ্ঞাপন বাবদ অনেক টাকা অনাদায়ী থাকছে।

তিনি বলেন, করোনার সময় সরকার বিভিন্ন খাতে প্রণোদনা দিলেও সংবাদপত্র শিল্পে দেওয়া হয়নি। প্রণোদনার জন্য বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর, প্রধানমন্ত্রীর মুখ্যসচিব, মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের সচিবের কাছে নোয়াবের পক্ষ থেকে আবেদন করা হয়েছে। হকারদের জন্য সিটি করপোরেশন ও পৌরসভার মেয়রদের কাছে জায়গা চাওয়া হয়েছে।

মতবিনিময় সভায় সভাপতিত্ব করেন এফবিসিসিআইয়ের সভাপতি মো. জসিম উদ্দিন। এসময় আরও উপস্থিত ছিলেন ডেইলি স্টারের সম্পাদক মাহফুজ আনাম, প্রথম আলোর সম্পাদক মতিউর রহমান, বণিক বার্তার সম্পাদক দেওয়ান হানিফ মাহমুদ, দ্য ফাইন্যান্সিয়াল হেরাল্ডের সম্পাদক রিয়াজ উদ্দিন আহমেদসহ এফবিসিসিআইয়ের কর্মকর্তারা।

/জিএম/এফএ/
সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

পার্বত্য চুক্তি পূর্ণ বাস্তবায়নের দাবি বিশিষ্টজনদের

পার্বত্য চুক্তি পূর্ণ বাস্তবায়নের দাবি বিশিষ্টজনদের

জাপানি দুই শিশুকে নিয়ে আপিল শুনানি ১২ ডিসেম্বর

জাপানি দুই শিশুকে নিয়ে আপিল শুনানি ১২ ডিসেম্বর

হাফ ভাড়া তদারকিতে মালিক সমিতির ৯ টিম

হাফ ভাড়া তদারকিতে মালিক সমিতির ৯ টিম

শ্যাডো ইকোনমিক সেক্রেটারি হলেন টিউলিপ

শ্যাডো ইকোনমিক সেক্রেটারি হলেন টিউলিপ

অন্য এলাকায় হালকা, ভারী বৃষ্টি হতে পারে সিলেট-চট্টগ্রামে  

অন্য এলাকায় হালকা, ভারী বৃষ্টি হতে পারে সিলেট-চট্টগ্রামে  

যা আছে মুরাদ হাসানের পদত্যাগপত্রে

যা আছে মুরাদ হাসানের পদত্যাগপত্রে

‘পদত্যাগপত্র লিখে মুরাদ হাসানের স্বাক্ষরের জন্য পাঠানো হয়েছে’

‘পদত্যাগপত্র লিখে মুরাদ হাসানের স্বাক্ষরের জন্য পাঠানো হয়েছে’

কোম্পানিতে আসতে চান না বাস মালিকরা

কোম্পানিতে আসতে চান না বাস মালিকরা

বুয়েটছাত্র আবরার হত্যা মামলার রায় বুধবার

বুয়েটছাত্র আবরার হত্যা মামলার রায় বুধবার

আড়াইহাজারে গ্যাস লিকেজে দগ্ধ ৪ জনের একজন মারা গেছেন

আড়াইহাজারে গ্যাস লিকেজে দগ্ধ ৪ জনের একজন মারা গেছেন

সর্বশেষ

আইডিএলসি-প্রথম আলো এসএমই পুরস্কার পেলেন ছয় উদ্যোক্তা

আইডিএলসি-প্রথম আলো এসএমই পুরস্কার পেলেন ছয় উদ্যোক্তা

শাহ আমানতে পিসিআর ল্যাব বসাচ্ছে ৪ প্রতিষ্ঠান, লাগবে না ফি

শাহ আমানতে পিসিআর ল্যাব বসাচ্ছে ৪ প্রতিষ্ঠান, লাগবে না ফি

রাশিয়া ও ইউক্রেনের মধ্যে উত্তেজনার নেপথ্যে

রাশিয়া ও ইউক্রেনের মধ্যে উত্তেজনার নেপথ্যে

টেস্ট ব্যাটিং কী, জানা আছে মুমিনুলদের?

টেস্ট ব্যাটিং কী, জানা আছে মুমিনুলদের?

নোবিপ্রবি শিক্ষার্থী নিহত, সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ

নোবিপ্রবি শিক্ষার্থী নিহত, সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ

© 2021 Bangla Tribune