সেকশনস

‘মুজিবনগর-কলকাতা স্বাধীনতা সড়ক সম্পর্ক সুদৃঢ় করবে’

আপডেট : ১৪ জানুয়ারি ২০২১, ২০:১৪

স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয় (এলজিআরডি) মন্ত্রী তাজুল ইসলাম বলেছেন, মুজিবনগর আম্রকানন আমাদের জাতিগতভাবে একটি স্মৃতির জায়গা। অত্যন্ত আবেগের একটি জায়গা। এখানকার স্মৃতি যেমনি সংরক্ষণ করা দরকার, তেমনি এই সড়ক দিয়ে আমাদের প্রথম সরকারের মন্ত্রিপরিষদ সদস্যবৃন্দ এসেছিলেন, যা স্মৃতি হয়ে আছে। তাই স্বাভাবিকভাবেই এই সড়কটি আমাদের কাছে গুরুত্বপূর্ণ। স্বাধীনতা সড়ক বাস্তবায়িত হলে বাংলাদেশ ও ভারতের মানুষের যাতায়াতের ব্যবস্থা সহজ হবে। পারস্পরিক সৌহার্দ্যপূর্ণ সম্পর্ক আরও সুদৃঢ় হবে।

বৃহস্পতিবার (১৪ জানুয়ারি) মেহেরপুরের মুজিবনগরে মুজিবনগর-কলকাতা ঐতিহাসিক স্বাধীনতা সড়ক পরিদর্শনকালে তিনি এসব কথা বলেন।

১৯৭১ সালের ১৭ এপ্রিল এ সড়ক দিয়ে বাংলাদেশের প্রথম সরকারের মন্ত্রিপরিষদ সদস্যবৃন্দ ভারত থেকে মুজিবনগরে এসে শপথগ্রহণ করেছিলেন। মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতি সংরক্ষণে স্বাধীনতা সড়কটি আগামী মার্চে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির উদ্বোধনের কথা রয়েছে। এর মধ্য দিয়ে মুজিবনগরের সঙ্গে কলকাতার সড়ক যাতায়াত শুরু হবে।

সড়কটির মানসম্মত উন্নয়নের কাজ দ্রুত শুরু হবে উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, ’৭৫ সালে বঙ্গবন্ধুকে হত্যার পর স্বাধীনতার অনেক স্মৃতিবিজড়িত স্থান অবহেলায় পড়ে ছিল। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ক্ষমতায় আসার পর বীর মুক্তিযোদ্ধাদের যেমনভাবে সম্মান করা হচ্ছে, তেমনি যুদ্ধের স্মৃতিবিজড়িত স্থানগুলোও সংরক্ষণ করা হচ্ছে।

যোগাযোগ ব্যবস্থা উন্নয়নের পূর্বশর্ত উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, রাস্তাটি হলে এখান দিয়ে দু’দেশের মানুষ যাতায়াত করতে পারবেন। রাস্তাটি হলে ব্যবসা-বাণিজ্যসহ সার্বিক বিষয়ে উন্নয়ন হবে, অপরদিকে মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিও সংরক্ষণ হবে।

পরিদর্শনকালে জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ও মেহেরপুর-১ আসনের সংসদ সদস্য মেহেরপুর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ফরহাদ হোসেন বলেন, প্রধানমন্ত্রীর প্রতিশ্রুতিতে মুজিবনগরে এক হাজার কোটি টাকার কাজ হবে। এর নকশাও প্রায় চূড়ান্ত। খুব দ্রুত এটি একনেকে তোলা হবে। আশা করা যায় আগামী বছরের প্রথম দিকে কাজ শুরু হবে। এটি বাস্তবায়ন হলে মুজিবনগর থেকে মুক্তিযুদ্ধের পুরো ইতিহাস দেশ-বিদেশের দর্শনার্থীদের সামনে তুলে ধরা যাবে।

অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন মেহেরপুর-২ আসনের সংসদ সদস্য মোহাম্মদ সাহিদুজ্জামান, জেলা প্রশাসক ড. মুনছুর আলম খান, পুলিশ সুপার এসএম মুরাদ আলি, জেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক এমএ খালেক ও যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট ইব্রাহিম শাহীনসহ সরকারি কর্মকর্তা ও আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীরা।

এর আগে, ঢাকা থেকে স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম এবং জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন হেলিকপ্টারে মুজিবনগরে পৌঁছান। এরপর পর্যটন মোটেলে গার্ড অব অনার শেষে মুজিবনগর স্মৃতিসৌধে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন তারা। পরিদর্শন শেষে মুজিবনগর স্মৃতি কমপ্লেক্সে জেলা প্রশাসন আয়োজিত স্বাধীনতা সড়ক (মুজিবনগর-কলকাতা) বাস্তবায়ন অগ্রগতি পর্যালোচন সভা অনুষ্ঠিত হয়।

/টিটি/এমওএফ/

সম্পর্কিত

খেলতে গিয়ে গলায় ফাঁস লেগে প্রাণ গেলো শিশুর

খেলতে গিয়ে গলায় ফাঁস লেগে প্রাণ গেলো শিশুর

রেললাইনে কাজের সময় নিজ ট্রলিতে চালক নিহত

রেললাইনে কাজের সময় নিজ ট্রলিতে চালক নিহত

উপহারের ঘর পেয়ে জেলায় জেলায় গৃহহীনদের হাসিমুখ

উপহারের ঘর পেয়ে জেলায় জেলায় গৃহহীনদের হাসিমুখ

খুবির এক শিক্ষক বরখাস্ত, ২ জনকে অপসারণের সিদ্ধান্ত

খুবির এক শিক্ষক বরখাস্ত, ২ জনকে অপসারণের সিদ্ধান্ত

সুন্দরবনে বাঘের আক্রমণে নিহত দু'জনের  লাশ ভারতে উদ্ধার

সুন্দরবনে বাঘের আক্রমণে নিহত দু'জনের লাশ ভারতে উদ্ধার

ঘর 'আপন' হওয়ার আগে আগলে রাখছেন তারা

ঘর 'আপন' হওয়ার আগে আগলে রাখছেন তারা

খুবির অস্থিতিশীল পরিবেশ প্রসঙ্গে সাবেক ২৭৩ শিক্ষার্থীর উদ্বেগ

খুবির অস্থিতিশীল পরিবেশ প্রসঙ্গে সাবেক ২৭৩ শিক্ষার্থীর উদ্বেগ

বাসের ধাক্কায় প্রাণ গেলো স্ত্রীর, স্বামী আহত

বাসের ধাক্কায় প্রাণ গেলো স্ত্রীর, স্বামী আহত

ঝিনাইদহে ট্রাকচাপায় নারী নিহত

ঝিনাইদহে ট্রাকচাপায় নারী নিহত

অনশনরত খুবির দুই শিক্ষার্থীর সঙ্গে কথা বললেন কে‌সি‌সি মেয়র

অনশনরত খুবির দুই শিক্ষার্থীর সঙ্গে কথা বললেন কে‌সি‌সি মেয়র

পিকনিক বাসের চাপায় মোটরসাইকেল গুঁড়ো, যুবক নিহত

পিকনিক বাসের চাপায় মোটরসাইকেল গুঁড়ো, যুবক নিহত

সর্বশেষ

পাখি মোটিফে সেজেছে কে ক্র্যাফটের নতুন আয়োজন

পাখি মোটিফে সেজেছে কে ক্র্যাফটের নতুন আয়োজন

আগে ভ্যাকসিন দেওয়ার উদ্দেশ্য বিএনপিকে নিধন: রিজভী

আগে ভ্যাকসিন দেওয়ার উদ্দেশ্য বিএনপিকে নিধন: রিজভী

বাংলাদেশ গেমসে খেলবেন সালমা-রুমানারা

বাংলাদেশ গেমসে খেলবেন সালমা-রুমানারা

ভোট থেকে জীবন অনেক মূল্যবান:: সিইসি

ভোট থেকে জীবন অনেক মূল্যবান:: সিইসি

কিসের নির্মূল কমিটি– প্রশ্ন কাজী ফিরোজ রশীদের 

কিসের নির্মূল কমিটি– প্রশ্ন কাজী ফিরোজ রশীদের 

দুই অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল নিয়োগ

দুই অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল নিয়োগ

যুক্তরাষ্ট্রে অভ্যন্তরীণ সন্ত্রাসবাদের ঝুঁকি মূল্যায়নের নির্দেশ বাইডেনের

যুক্তরাষ্ট্রে অভ্যন্তরীণ সন্ত্রাসবাদের ঝুঁকি মূল্যায়নের নির্দেশ বাইডেনের

শহীদ মতিউরের স্মৃতিফলকে ছাত্রলীগের শ্রদ্ধা

শহীদ মতিউরের স্মৃতিফলকে ছাত্রলীগের শ্রদ্ধা

যোগ্যতাবিহীন প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের অবসর ভাতার উদ্যোগ

যোগ্যতাবিহীন প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের অবসর ভাতার উদ্যোগ

বাহারি ব্যাগ এনেছে ‘সারা’

বাহারি ব্যাগ এনেছে ‘সারা’

যুক্তরাজ্যে করোনায় আরও পাঁচ বাংলাদেশির মৃত্যু

যুক্তরাজ্যে করোনায় আরও পাঁচ বাংলাদেশির মৃত্যু

সিরিয়া ফেরত নব্য জেএমবির এক জঙ্গি গ্রেফতার

সিরিয়া ফেরত নব্য জেএমবির এক জঙ্গি গ্রেফতার

সর্বশেষসর্বাধিক

লাইভ

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

খেলতে গিয়ে গলায় ফাঁস লেগে প্রাণ গেলো শিশুর

খেলতে গিয়ে গলায় ফাঁস লেগে প্রাণ গেলো শিশুর

রেললাইনে কাজের সময় নিজ ট্রলিতে চালক নিহত

রেললাইনে কাজের সময় নিজ ট্রলিতে চালক নিহত

উপহারের ঘর পেয়ে জেলায় জেলায় গৃহহীনদের হাসিমুখ

উপহারের ঘর পেয়ে জেলায় জেলায় গৃহহীনদের হাসিমুখ

খুবির এক শিক্ষক বরখাস্ত, ২ জনকে অপসারণের সিদ্ধান্ত

খুবির এক শিক্ষক বরখাস্ত, ২ জনকে অপসারণের সিদ্ধান্ত

সুন্দরবনে বাঘের আক্রমণে নিহত দু'জনের  লাশ ভারতে উদ্ধার

সুন্দরবনে বাঘের আক্রমণে নিহত দু'জনের লাশ ভারতে উদ্ধার

বাসের ধাক্কায় প্রাণ গেলো স্ত্রীর, স্বামী আহত

বাসের ধাক্কায় প্রাণ গেলো স্ত্রীর, স্বামী আহত

ঝিনাইদহে ট্রাকচাপায় নারী নিহত

ঝিনাইদহে ট্রাকচাপায় নারী নিহত

অনশনরত খুবির দুই শিক্ষার্থীর সঙ্গে কথা বললেন কে‌সি‌সি মেয়র

অনশনরত খুবির দুই শিক্ষার্থীর সঙ্গে কথা বললেন কে‌সি‌সি মেয়র

পিকনিক বাসের চাপায় মোটরসাইকেল গুঁড়ো, যুবক নিহত

পিকনিক বাসের চাপায় মোটরসাইকেল গুঁড়ো, যুবক নিহত


[email protected]
© 2021 Bangla Tribune
Bangla Tribune is one of the most revered online newspapers in Bangladesh, due to its reputation of neutral coverage and incisive analysis.