লক্ষ্মীপুরে আগুনে পুড়িয়ে শাহিনুরকে হত্যা মামলার চার আসামি রিমান্ডে

Send
লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ১৬:১৪, এপ্রিল ২৪, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১৬:১৪, এপ্রিল ২৪, ২০১৯

  

লক্ষ্মীপুরের কমলনগরে আগুনে পুড়িয়ে শাহিনুর হত্যা মামলায় গ্রেফাতার চার আসামিকে ২ দিনের রিমান্ড দিয়েছে আদালত। বুধবার দুপুরে সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট তারিক আজিজের কোট এ আদেশ দেন বলে জানান লক্ষ্মীপুর কোর্টের পিপি জসিম উদ্দিন।

উল্লেখ্য গত রবিবার (২১ এপ্রিল) বিকালে স্ত্রীর স্বীকৃতির দাবিতে কমলনগরে যাওয়ার পর গায়ে কেরোসিনে ঢেলে আগুন ধরিয়ে দেয়। পরে অগ্নিদগ্ধ  শাহিনুর আক্তার সোমবার (২২ এপ্রিল) সকাল সাড়ে ১১টায় ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করেন। সোমাবার রাতে নিহতের বাবা জাফর উদ্দিন বাদী হয়ে ৫ জনের নাম উল্লেখ করে মামলা দায়ের করেন।

পুলিশ এ ঘটনায় চারজনকে আটক করেছে। পরে আটক চারজনকে এ মামলায় গ্রেফতার দেখানো হয়।

সরকারের পক্ষে এ মামলায় যুক্তির্তক উপস্থাপন করেন লক্ষ্মীপুর কোটের পিপি জসিম উদ্দিন।

উল্লেখ্য দগ্ধ ওই তরুণী স্থানীয় সংবাদকর্মীদের জানিয়েছিলেন, দুই বছর আগে মোবাইল ফোনে লক্ষ্মীপুরের কমলনগরের পাটারিরহাট এলাকার মোহর আলীর ছেলে সালাহউদ্দিনের সঙ্গে তার প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। কয়েক মাস পরে রাউজানে তাদের বিয়ে হয়। পরে বিভিন্ন সময়ে তিনি শ্বশুরবাড়িতে যাওয়ার কথা বললেও তাতে কোনও সাড়া দেননি সালাহউদ্দিন। পরে শুক্রবার রাতে তিনি একাই ছুটে আসেন কমলনগরের পাটারিরহাটে স্বামীর বাড়িতে। সেখানে এসে তিনি দেখেন সালাহউদ্দিনের স্ত্রী ও দুই সন্তানসহ আলাদা সংসার রয়েছে। পরে স্ত্রীর স্বীকৃতি দাবি করলে সালাহউদ্দিন তার সঙ্গে সম্পর্কের কথা অস্বীকার করেন। প্রত্যাখ্যাত হয়ে শাহিনুর দু’দিন ধরে ওই এলাকায় স্বীকৃতির দাবি আদায়ে জনে জনে ঘুরতে থাকেন। এতে ক্ষুব্ধ হয়ে সালাহউদ্দিন তাকে এলাকা ছেড়ে চলে যেতে বিভিন্নভাবে হুমকি দেন। পরে স্থানীয় চরফলকন ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ড মেম্বার মো. হাফিজ উল্যাহ ও গ্রাম পুলিশ আবু তাহের বিষয়টি সুরাহা করে দেবেন আশ্বাস দেন। এ অবস্থায় রবিবার বিকালে সালাহউদ্দিন বাড়ির পাশে একটি সয়াবিন ক্ষেতে শাহিনুরকে ডেকে নিয়ে গায়ে কেরোসিন ঢেলে তার গায়ে আগুন লাগিয়ে দেন।

 

 

/জেবি/

লাইভ

টপ