‘বিএনপির আমলে স্বাস্থ্যসেবা খাতে ব্যাপক লুটপাট হয়েছে’

Send
কেরানীগঞ্জ (ঢাকা) প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ১৫:০৯, জুলাই ১২, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১৫:১৫, জুলাই ১২, ২০১৯

কেরানীগঞ্জে এক অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন নসরুল হামিদ বিপুবিএনপির আমলে স্বাস্থ্যসেবা খাতে ব্যাপক লুটপাট হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন বদ্যুৎ, জ্বালানি ও  খনিজসম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ বিপু। তিনি বলেন, ‘এই সরকারের আমলে স্বাস্থ্যসেবা মানুষের দোরগোড়ায় পৌঁছে গেছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিশ্ববিদ্যালয় ও সরকারি হাসপাতালগুলোতে ফ্রি চিকিৎসার ব্যবস্থা করেছেন। বিএনপির আমলে এ খাতে ব্যাপক লুটপাট হয়েছে।’

শুক্রবার (১২ জুলাই) বেলা ১১টায় কেরানীগঞ্জের কদমতলী এলাকার মা প্লাজায় ইবনে সিনা ডায়াগনস্টিক অ্যান্ড কনসালটেশন সেন্টারের উদ্বোধনকালে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘বাংলাদেশে কিছু ট্রাস্টি রাজনীতিতে জড়িয়ে বিতর্কিত হয়েছে। যারা দেশকে অস্বীকার করে এবং স্বাধীনতার বিপক্ষে অবস্থান নেয়; এ ধরনের লোক দ্বারা পরিচালিত কোনও হাসপাতাল বা স্বাস্থ্যসেবা কেন্দ্র কেরানীগঞ্জে করতে দেওয়া হবে না।’

নসরুল হামিদ বিপু বলেন, ‘কেরানীগঞ্জের মানুষ যেন স্বাস্থ্যসেবা হাতের নাগালে পান, সেজন্য ঝিলমিল প্রকল্পের ভিতর ৫০০ শয্যাবিশিষ্ট একটি আধুনিক হাসপাতাল নির্মাণ করা হবে। শুভাঢ্যা খালটি সংস্কারের জন্য প্রায় ১২শ কোটি টাকা সরকার বরাদ্দ দিয়েছে। এই প্রকল্পের কাজ আমরা শিগগিরই শুরু করবো।’

ইবনে সিনা ট্রাস্টের সদস্য ও ইবনে সিনা কেরানীগঞ্জ শাখার ব্যবস্থাপনা পরিচালক প্রফেসর ড. একেএম সদরুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরও  উপস্থিত ছিলেন—কেরানীগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান শাহীন আহমেদ, জিনজিরা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হাজী সাকুর হোসেন সাকু ও ইবনে সিনা কেরানীগঞ্জ শাখার ভাইস চেয়ারম্যান হাজী মনির হোসেন, ইবনে সিনা ট্রাস্টের সদস্য কাজী হারুন-অর-রশিদ, ট্রাস্টের ভারপ্রাপ্ত এক্সিকিউটিভ ডিরেক্টর মো. ফয়েজ উল্লাহ, ইবনে সিনা হাসপাতালের সিনিয়র জিএম (অ্যাডমিন) মো. আনিসুজ্জামান প্রমুখ।

ইবনে সিনার অন্যান্য শাখার মতো এই শাখা থেকেও রোগীরা বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকদের কনসালটেশন সুবিধা এবং তুলনামূলক কম খরচে সব ধরনের ডায়াগনস্টিক পরীক্ষ-নিরীক্ষার সুযোগ পাবেন বলে জানায় কর্তৃপক্ষ।

 

 

/আইএ/

লাইভ

টপ