সরাইলে কলেজছাত্রের গলাকাটা লাশ উদ্ধার

Send
ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ১৩:৫৫, আগস্ট ১২, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১৮:৪৩, আগস্ট ১২, ২০১৯

লাশ উদ্ধারব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইলে ইকরাম ইসলাম (১৭) নামে এক কলেজছাত্রের বস্তাবন্দি লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। রবিবার (১১ আগস্ট) সকাল সাড়ে ১০টার দিকে উপজেলার কালিকচ্ছ ইউনিয়নের বারোজিবিপাড়ার একটি বসতঘর থেকে লাশটি উদ্ধার করা হয়।

নিহতের বড় ভাই মনিরুল ইসলাম জানান, ইকরাম ইসলাম বারোজিবিপাড়ায় তার খালু লাল মিয়ার বাড়িতে থেকে লেখাপড়া করতো। সে সরাইল সরকারি কলেজের বিজ্ঞান বিভাগের প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী ছিল। প্রতিদিনের মতো শনিবার (১০ আগস্ট) রাতে খাবার খেয়ে ঘুমিয়ে পড়ে সে। রাতের কোনও একসময় দুর্বৃত্তরা কক্ষে ঢুকে তাকে গলাকেটে হত্যা করে। পরে লাশ বস্তাবন্দি করে ঘরেই ফেলে রেখে যায়।

তিনি আরও জানান, সকালে ইকরামের ঘরের দরজা বন্ধ থাকায় এবং ঘর থেকে কোনও সাড়াশব্দ না পেয়ে বাড়ির লোকজনের সন্দেহ হয়। পরে তারা ঘরে প্রবেশ করে ইকরামের লাশ বস্তাবন্দি অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখে চিৎকার শুরু করেন। লাশের গলা কাটা ছিল। তাৎক্ষণিক বাড়ির লোকজন থানায় খবর দেয়। পরে পুলিশ এসে সুরতহাল প্রতিবেদন তৈরি শেষে লাশ উদ্ধার করে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠায়।

মনিরুল আরও জানান, এলাকার বখাটে শিমুল ও নাজিম উল্লাহ প্রায়ই তার খালাতো বোনকে স্কুলে যাওয়ার পথে উত্ত্যক্ত করতো। এটা নিয়ে ইকরাম প্রতিবাদ করেছিল। ইতোপূর্বে পুলিশ দিয়ে ধরিয়ে বখাটেদের জেল খাটিয়েছিল সে। ধারণা করা হচ্ছে, ওই বিরোধ থেকে তারা ইকরামকে হত্যা করে থাকতে পারে। বড় ভাই মনিরুল হত্যাকাণ্ডে জড়িতদের গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান।

নিহতের খালু মো. লাল মিয়া জানান, কীভাবে কী হয়েছে আমি বুঝতে পারছি না। এ জঘন্য হত্যাকাণ্ডের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানাচ্ছি।

সরাইল সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার মকবুল হোসেন জানান, তদন্ত করে দ্রুত এই হত্যাকাণ্ডের রহস্য উদঘাটন করা হবে। হত্যাকাণ্ডে জড়িতদের গ্রেফতার করা হবে।

/আইএ/এমওএফ/

লাইভ

টপ