স্কুলছাত্রীকে অপহরণের পর ধর্ষণ, একজনের যাবজ্জীবন

Send
নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম
প্রকাশিত : ১৯:৩৮, অক্টোবর ১৬, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১৯:৪০, অক্টোবর ১৬, ২০১৯

চট্টগ্রামদশম শ্রেণির এক ছাত্রীকে অপহরণের পর ধর্ষণের ঘটনায় এক ব্যক্তিকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। বুধবার (১৬ অক্টোবর) চট্টগ্রামের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন বিশেষ ট্রাইব্যুনাল-১ এর বিচারক মশিউর রহমান খান এ আদেশ দেন। একই রায়ে আদালত পৃথক দুটি ধারায় ২০ হাজার করে ৪০ হাজার টাকা অর্থদণ্ড দিয়েছেন আসামিকে।

নগর পুলিশের সহকারী কমিশনার (প্রসিকিউশন) কাজী শাহাবুদ্দিন আহমেদ এ তথ্য জানিয়েছেন। রায় ঘোষণার সময় আসামি মাহমুদুর রহমান হায়দার আদালতে উপস্থিত ছিলেন। তিনি পেশায় রাজমিস্ত্রি ও কক্সবাজারের পেকুয়া ৬ নম্বর শীলখালি ওয়ার্ডের মৃত বজল আহমদের ছেলে।

কাজী শাহাবুদ্দিন আহমেদ বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, আসামি বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় আসামি হায়দারকে দণ্ডবিধির পৃথক দুটি ধারায় অপহরণের দায়ে ১৪ বছর কারাদণ্ড এবং ধর্ষণের দায়ে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত।  পাশাপাশি দুই ধারাতেই ২০ হাজার টাকা করে মোট ৪০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

মামলার এজহার সূত্রে জানা যায়, ২০১৬ সালের ৪ অগাস্ট ক্লাস করতে বের হয়ে ওই ছাত্রী নিখোঁজ হন। পরে পুলিশ চট্টগ্রামের কালুরঘাটের হামিদচর এলাকা থেকে ওই ছাত্রীকে উদ্ধার করে। এসময় ওই এলাকা থেকে আসামি মাহমুদুর রহমান হায়দারকে আটক করে পুলিশ। হায়দার ওই সময় ভিকটিমের বাসায় রাজমিস্ত্রির কাজ করতো। পরে ওই ছাত্রীর বাবা অপহরণ, ধর্ষণ ও মুক্তিপণ দাবির অভিযোগে তার বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন। একই বছরের ২৭ অক্টোবর এই মামলায় আদালতে অভিযোগপত্র দেয় পুলিশ। ২০১৭ সালের ২৭ অগাস্ট ওই মামলায় আদালত অভিযোগ গঠন করে বিচার কাজ শুরুর আদেশ দেন। ১১ জন সাক্ষীর সাক্ষ্য গ্রহণ শেষে আদালত আজ এই আদেশ দেন।

/এফএস/

লাইভ

টপ