ঘুষ না দেওয়ায় খারিজ আবেদন বাতিল!

Send
নীলফামারী প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ১৮:১৪, ফেব্রুয়ারি ২৪, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৮:২৩, ফেব্রুয়ারি ২৪, ২০২০




 নীলফামারীর ডিমলায় সহকারী কমিশনারের (ভূমি) অফিসে নাম খারিজের আবেদন দিতে ঘুষ নেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। উপজেলার সদর ইউনিয়নের রামডাঙ্গা গ্রামের দেবারু মামুদের ছেলে তৈয়ব আলী এ অভিযোগ তুলেছেন। তিনি জানান, সম্প্রতি ওই অফিসে নাম খারিজের আবেদন করতে গেলে, অফিস সহায়ক ও কম্পিউটার অপারেটর শ্যামল চন্দ্র রায় প্রতিটি খারিজের আবেদন বাবদ পাঁচ হাজার টাকা করে ঘুষ দাবি করেন।

তৈয়ব আলী বলেন, আমি ওই টাকা দিতে রাজি হইনি। পরে বাজারের কম্পিউটার থেকে আবেদন করি। এ কারণে, অফিস সহায়ক ক্ষিপ্ত হয়ে আমার নাম খারিজের আবেদন দুটি বিনা কারণে (৯ ফেব্রয়ারি/২০) বাতিল করে দেন। যার নম্বর-১৭.৩৪.৩৭৮ ও ৩৭১ (তারিখ: ১.০২.২০)। বিষয়টি তদন্ত করে সুবিচারের দাবি জানাচ্ছি।

তবে অভিযোগ অস্বীকার করেছেন অফিস সহায়ক শ্যামল চন্দ্র রায়। তিনি দাবি করেন, ‘আমি কেন তার নাম খারিজের আবেদন বাতিল করবো। টাকা চাওয়ার অভিযোগ মিথ্যা। কেউ যদি আমার বিরুদ্ধে অহেতুক মিথ্যা অভিযোগ করে, তাহলে আমার কিছুই করার নেই। স্যারের সঙ্গে কথা বলে দেখেন।’

এ বিষয়ে ডিমলার সহকারী কমিশনার (ভূমি ভারপ্রাপ্ত) মো. মনোয়ার হোসেন বলেন, আমি অভিযোগের বিষয়ে বিশেষ কিছু জানি না। আগে খোঁজ নিয়ে জানতে হবে কেন আবেদন বাতিল করা হয়েছে, পরে ব্যবস্থা নেবো।

/টিটি/

লাইভ

টপ