বৃত্তির টাকায় করোনা টেস্টের কিট কিনে পাঠালেন শিক্ষার্থী

Send
জয়পুরহাট প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ১৮:২৭, মার্চ ২৭, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৮:৫২, মার্চ ২৭, ২০২০




 করোনাভাইরাস পরীক্ষায় চীন থেকে পাঠানো বাংলাদেশি এক শিক্ষার্থীর ১০০ টেস্টিং কিট ও টেস্টের জন্য প্রয়োজনীয় এসিড ও ড্রপ জয়পুরহাট স্বাস্থ্য বিভাগের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। শুক্রবার (২৭ মার্চ) জয়পুরহাট পৌরসভার মেয়র মোস্তাফিজুর রহমান মোস্তাক সকাল ১১টায় সিভিল সার্জন ডা. মো. সেলিম মিঞার হাতে কিটগুলো তুলে দেন। এ সময় জেলা পরিবার পরিকল্পনা অধিদফতরের উপ-পরিচালক ডা. জোবায়ের গালীব, জেলা আধুনিক হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ডা. সরদার রাশেদ মোবারকসহ অন্যরা উপস্থিত ছিলেন।

জানা গেছে, সম্প্রতি চীনের নানথোং সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজি কলেজের বিএসসি ইঞ্জিনিয়ারিংয়ের শিক্ষার্থী মিজানুর রহমান সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে জয়পুরহাটে করোনাভাইরাস পরীক্ষার জন্য কিট পাঠানোর ইচ্ছা প্রকাশ করেন। পরে জাতীয় সংসদের হুইপ আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপন তার সঙ্গে যোগাযোগ করলে নিজের বৃত্তির টাকা থেকে কিট কিনে দেশে পাঠান শিক্ষার্থী মিজান। বৃহস্পতিবার পাঠানো কিটগুলো বুঝে নিয়ে হুইপ স্বপন জয়পুরহাটে পাঠিয়ে দিলে পৌর মেয়র মোস্তাফিজুর রহমান মোস্তাক কিটগুলো সিভিল সার্জনের কাছে হস্তান্তর করেন।

সিভিল সার্জন ডা. মো. সেলিম মিঞা বলেন, ‘চীন থেকে পাঠানো করোনাভাইরাস পরীক্ষার ১০০টি কিট, প্রয়োজনীয় এসিড ড্রপ আমরা হাতে পেয়ে রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠানের (আইইডিসিআর) সঙ্গে যোগাযোগ করেছি। সেখান থেকে সম্মতিপত্র পাওয়ার পর আমরা কিটগুলো দিয়ে পরীক্ষা শুরু করবো।’

জয়পুরহাট পৌরসভার মেয়র মোস্তাফিজুর রহমান মোস্তাক বলেন, চীন প্রবাসী জয়পুরহাটের এক শিক্ষার্থী হুইপ আল মাহমুদ স্বপনের সঙ্গে যোগাযোগ করে কিটগুলো পাঠিয়েছেন।

/টিটি/

লাইভ

টপ