বাঁশের খুঁটিতে বিদ্যুতের তার, বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে মা-ছেলের মৃত্যু

Send
গাইবান্ধা প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ১৪:২৬, এপ্রিল ০৪, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৪:৩০, এপ্রিল ০৪, ২০২০

গাইবান্ধার সাদুল্যাপুরে ইটভাটার বাঁশের খুঁটির ঝুলন্ত তারে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে মা ও ছেলের মর্মান্তিক মৃত্যু হয়েছে। শনিবার (৪ এপ্রিল) সকালে তাদের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য গাইবান্ধা সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠায় পুলিশ। নিহতরা হলেন, কামারপাড়া ইউনিয়নের নুরপুর গ্রামের সাধনা রানী (৫৪) ও তার ছেলে উৎপল কুমার (১৮)।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, শুক্রবার বিকালে প্রতিবেশীর ধানের জমিতে কিটনাশক ছিটানোর সময় ঝুলন্ত বিদ্যুতের তারে জড়িয়ে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয় উৎপল। এ সময় ছেলেকে বাঁচাতে গিয়ে মা সাধনা রানীও বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হন। পরে ঘটনাস্থলেই তাদের মৃত্যু হয়।

নিহতের স্বজনদের অভিযোগ, এসএসবি বিক্সস নামের ইটভাটায় বাঁশের খুঁটিতে বিদ্যুতের লাইন নেয় ভাটা মালিক শহিদুল ইসলাম বাবলা। সম্প্রতি ঝুলন্ত তার ওই জমিতে পড়ে থাকে। ঝুলন্ত তার সরাতে বারবার ভাটা মালিককে বলেও কোনও কাজ হয়নি। ভাটা মালিকের অবহেলা ও দায়িত্বহীনতায় এই মর্মান্তিক মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে। ইটভাটা মালিকসহ স্থানীয় প্রভাবশালীরা ঘটনাটি ধামাচাপা দেওয়ার চেষ্টা করে।

অভিযোগের বিষয় জানতে ইটভাটা মালিক শহিদুল ইসলাম বাবলার সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করেও বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

সাদুল্যাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাসুদ রানা বলেন, ‘স্থানীয়দের কাছে খবর পেয়ে লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় নিহতের বড় ছেলে সবুজ কুমার বাদী হয়ে ইটভাটা মালিক শহিদুল ইসলাম বাবলার বিরুদ্ধে থানায় লিখিত অভিযোগ করেছেন। ঘটনাটি তদন্ত করা হচ্ছে। দ্রুতই প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

/এনএস/

লাইভ

টপ