হেঁটে রাঙামাটি থেকে চট্টগ্রাম যাচ্ছেন পোশাক শ্রমিকরা

Send
রাঙামাটি প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ১৫:২৫, এপ্রিল ০৪, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৬:৫৭, এপ্রিল ০৪, ২০২০

করোনা পরিস্থিতিতে পাহাড়ি পথে হেঁটে রাঙামাটি থেকে চট্টগ্রামের উদ্দেশে রওনা দিয়েছেন পোশাক শ্রমিকরা। পথে নেই কোনও যানবাহন। তাই জীবনের ঝুঁকি নিয়ে হেঁটেই যেতে হবে প্রায় ৭০ কিলোমিটার পথ। গার্মেন্টস মালিকদের ৫ এপ্রিল কারখানা খোলার নির্দেশে তারা কর্মস্থলে রওনা হয়েছেন।

শনিবার (৪ এপ্রিল) সকালে জেলার বিভিন্ন উপজেলায় অবস্থানরত পোশাক শ্রমিকদের দলে দলে হেঁটেই যেতে দেখা গেছে। করোনাভাইরাসের ঝুঁকি কমাতে গত ২৬ মার্চ থেকে ১০ দিনের ছুটি ঘোষণা করে সরকার। ছুটির কারণে সকল প্রকার যান চলাচল বন্ধ রয়েছে।

পোশাক শ্রমিক আব্দুল মতিন জানান, গার্মেন্টস থেকে ফোনে আগামীকাল (৫ এপ্রিল) কাজে যোগদানের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। তাই নিরুপায় হয়ে হেঁটেই রাঙামাটি থেকে চট্টগ্রামের উদ্দেশে রওনা দিয়েছি। রাস্তায় পুলিশের বাধা থাকলেও মানবিক কারণে তারাও ছেড়ে দিয়েছে।

আরেক পোশাক শ্রমিক রোকেয়া আক্তার বলেন, লংগদু থেকে মালামালের বোটে করে খুব সকালে রওনা দিয়েছি। যদি আগামীকাল কর্মস্থলে যোগদান না করি, তাহলে ছুটির দিনগুলোসহ অনুপস্থিতি দেখানো হবে। বেতনভাতা পাওয়া কঠিন হবে। সেখানে আমাদের বাসা ভাড়াও বাকি রয়েছে।

ঝুঁকি জেনেও রওনা হওয়া পোশাক শ্রমিক নয়ন মিয়া বলেন, করোনাভাইরাস সংক্রামক ব্যাধি, ক্ষতি হতে পারে। কিন্তু কাল কাজে যোগ না দিলে না খেয়ে মরতে হবে। চাকরি না থাকলে বউ বাচ্চা না খেয়ে থাকবে। রাঙামাটি থেকে চট্টগ্রামের দূরত্ব প্রায় ৭০ কিলোমিটার। আবার পাহাড়ি পথ। তাও কিছুই করার নাই।

এদিকে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে শহরে জেলা প্রশাসন, বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর নিয়মিত টহল অব্যাহত রয়েছে। শনিবার সাপ্তাহিক হাট থাকার কারণে বনরূপা বাজারে সেনাবাহিনীর একটি দল বাজারে অবস্থান করছে। রাস্তায় মোটরসাইকেল নিয়ে বের হওয়ায় রাঙামাটি জেলার নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট বোরহান উদ্দিন একজনকে ৫০০ টাকা জরিমানা করেছেন।

/এনএস/এমএমজে/

লাইভ

টপ