করোনা পজিটিভ শুনে রোগীর পলায়ন, পথে পথে বসানো হলো চেকপোস্ট

Send
হিলি প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ১৮:৫৭, মে ৩০, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৯:৪৯, মে ৩০, ২০২০

দিনাজপুরের বিরামপুরে করোনা পজিটিভ শনাক্তের খবর পেয়ে আইসোলেশন কেন্দ্র থেকে রুহুল আমিন (১৮) নামের এক যুবক পালিয়েছে। শুক্রবার (২৯ মে) রাতে সে একইর উচ্চ বিদ্যালয়ের আইসোলেশন কেন্দ্র থেকে পালিয়ে যায়। রুহুল আমিন বিরামপুর উপজেলার জোতবানী ইউনিয়নের একইর গ্রামের রেজাউল ইসলামের ছেলে। সে গাজীপুরের একটি পোশাক কারখানায় শ্রমিকের কাজ করতো।

বিরামপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. সোলায়মান হোসেন মেহেদী এসব তথ্য জানান।

তিনি বলেন, রুহুল আমিন গত পাঁচ দিন আগে গাজীপুর থেকে জ্বর নিয়ে নিজ বাড়িতে আসে। বিষয়টি জানতে পেরে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের করোনা টিম রুহুল আমিনের নমুনা সংগ্রহ করে তা পরীক্ষার জন্য প্রেরণ করে। করোনা উপসর্গ থাকায় রুহুল আমিনকে জোতবানী ইউনিয়নের আইসোলেশন কেন্দ্র একইর উচ্চ বিদ্যালয়ে রাখা হয়েছিল। শুক্রবার রাতে তার নমুনা পরীক্ষায় করোনা পজিটিভ শনাক্তের রিপোর্ট আসে। এরপর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এবং পুলিশের একটি দল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানকে নিয়ে একইর স্কুল থেকে রুহুল আমিনকে বিরামপুর স্বাস্থ্যকেন্দ্রে নিয়ে আসার জন্য যায়। এসময় রুহুল আমিন করোনা শনাক্তের খবর শুনে টয়লেটে যাওয়ার কথা বলে স্কুলের দেয়াল টপকে সেখান থেকে পালিয়ে যায়।
বিরামপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. তৌহিদুর রহমান বাংলা ট্রিবিউনকে জানান, ঘটনার পর একইর এলাকাসহ বিরামপুরের প্রতিটি প্রবেশ পথে চেকপোস্ট বসানো হয়েছে। রুহুল আমিনকে খুঁজে পেতে তার বাবাকে নিয়ে রাত থেকে সম্ভাব্য সব স্থানে অভিযান চালানো হচ্ছে।

/এএইচ/এমএমজে/

লাইভ

টপ