প্রেমিককে নিয়ে স্বামীর গলা কেটে হত্যার অভিযোগ

Send
পঞ্চগড় প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ১৭:২৯, জুলাই ০২, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৮:৫৭, জুলাই ০২, ২০২০




লাশপঞ্চগড়ে পরকীয়ার জের ধরে স্বামী জহর আলীকে (৬৫) গলা কেটে হত্যার অভিযোগ উঠেছে স্ত্রী জাহেদা ও তার প্রেমিক ইদ্রিস আলীর বিরুদ্ধে। বৃহস্পতিবার (২ জুলাই) ভোররাতে জেলার তেতুঁলিয়া উপজেলার বাংলাবান্ধা প্রাথমিক বিদ্যালয় সংলগ্ন হকিকুলের বাড়িতে হত্যার এ ঘটনাটি ঘটে। নিহত জহর আলীর বাড়ি জেলার আটোয়ারী উপজেলার বলরামপুর ইউনিয়নের গাঠিয়া পাড়া গ্রামে।

পুলিশ ময়নাতদন্তের জন্য তার লাশ পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালে পাঠিয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে একটি ছুরি উদ্ধার করা হয়েছে।

তেতুঁলিয়া মডেল থানার ওসি (তদন্ত) আবু সাঈদ চৌধুরী জানান, ভোরে খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে গুরুতর আহত অবস্থায় জহর আলীকে তেতুঁলিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়। পরে সেখান থেকে তাকে পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়। তবে সেখানে নেওয়ার সময় পথেই তার মৃত্যু হয়। মৃত্যুর আগে ঘাতকদের নাম বলে গেছেন জহর। ছুরি দিয়ে গলা কেটে দিলেও তিনি কথা বলতে পারছিলেন। এ সময় স্থানীয় এক ব্যক্তি তার ভিডিও ধারণ করেন। ওই ভিডিওতে জহর জানান, ইদ্রিস ও জাহেদা তার গলায় ছুরি চালিয়ে দিয়ে পালিয়ে গেছে।

নিহতের ছেলে নুরুজ্জামান জানান, ছোট মায়ের সঙ্গে ইদ্রিসের সর্ম্পক ছিল। এ কারণে ইদ্রিসের সঙ্গে বাবার সম্পর্ক ভালো যাচ্ছিলো না। সকালে শুনেছি আমার বাবাকে হত্যা করা হয়েছে। আমি বাবা হত্যার বিচার চাই।

তেতুঁলিয়া মডেল থানার ওসি (তদন্ত) আবু সাঈদ চৌধুরী জানান, ওই বৃদ্ধের লাশের ময়নাতদন্ত হয়েছে, মামলার প্রস্তুতিও চলছে। বৃদ্ধের বড় ছেলে নুরুজ্জামান নুরুকে বাড়ি থেকে ডেকে আনা হয়েছে। ইদ্রিস ও জাহেদাকে গ্রেফতারে অভিযান চলছে।

/টিটি/

লাইভ

টপ