পানিতে ডুবে ৩ জেলায় ৪ জনের মৃত্যু

Send
বাংলা ট্রিবিউন ডেস্ক
প্রকাশিত : ২৩:৪২, আগস্ট ০২, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ২৩:৪৪, আগস্ট ০২, ২০২০


দেশের তিন জেলায় পানিতে ডুবে চার জনের মৃত্যু হয়েছে। দিনাজপুরে করতোয়া নদীতে ডুবে মামাতো-ফুপাতো ভাই-বোন, বগুড়ার বাঙালি নদীতে ডুবে প্রথম শ্রেণির এক স্কুলছাত্র ও টাঙ্গাইলের ঘাটাইলে পুকুর থেকে এক গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করা হয়েছে।

দিনাজপুর প্রতিনিধি জানান, ঘোড়াঘাটে করতোয়া নদীতে ডুবে মামাতো-ফুপাতো ভাই বোনের মৃত্যু হয়েছে। তাদের এক জনের বয়স ৯ বছর ও অপর জনের বয়স ৭। দুই শিশু হলো ঘোড়াঘাট উপজেলার ১ নম্বর বুলাকিপুর ইউনিয়নের গ্রামের কৃষ্ণরামপুর মাটিয়াল পাড়া গ্রামের মৃত কবিরুল ইসলামের মেয়ে মেহেনাজ (৯) ও ৩ নম্বর সিংড়া ইউনিয়নের নায়েব আলীর ছেলে কামরুল হাসান (৭)। মেহেনাজের লাশ বিকাল সাড়ে ৫টায় এবং কামরুল হাসানের লাশ সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় উদ্ধার করেন ডুবুরিরা।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, রবিবার (২ আগস্ট) দুপুরে উপজেলার করতোয়া নদীর নুনদহ ঘাটে গোসল করতে যায় শিশু মেহেনাজ ও কামরুল হাসান। নদীর পানিতে নামার পর শিশু দুটি তলিয়ে যায়। এ সময় স্থানীয়রা পানিতে নেমে অনেক খোঁজ করেও না পাওয়ায় ঘোড়াঘাট ফায়ার সার্ভিসকে খবর দেয়। ঘোড়াঘাট ফায়ার সার্ভিস রংপুর বিভাগীয় ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দলকে খবর দেয়। খবর পেয়ে ডুবুরিরা এসে তাদের উদ্ধার করে। ঘোড়াঘাট থানার ওসি আমিরুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

বগুড়া প্রতিনিধি জানান, সারিয়াকান্দিতে নানা বাড়ি বেড়াতে এসে নদীতে গোসল করতে নেমে তাওহিদ ইসলাম তুহিন (৮) নামে এক শিশু শিক্ষার্থীর মৃত্যু হয়েছে। রবিবার বিকালে উপজেলার চর গোসাইবাড়ি গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। সারিয়াকান্দি থানার ওসি আল আমিন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। শিশু তুহিন বগুড়া শহরের খান্দার এলাকার রিকশাচালক দেলোয়ার হোসেনের ছেলে। সে খান্দার সরকারি মডেল প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রথম শ্রেণি শিক্ষার্থী।

টাঙ্গাইল প্রতিনিধি জানান, ঘাটাইলে পুকুর থেকে রিপা আক্তার (১৯) নামের এক গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। রবিবার (২ আগস্ট) সন্ধ্যায় উপজেলার সাত্তার বাইদ গ্রামের একটি পুকুর থেকে তার লাশ উদ্ধার করে ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দল। টাঙ্গাইলের ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স স্টেশনের সিনিয়র স্টেশন অফিসার মো. সফিকুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। নিহত রিপা ওই গ্রামের ইসমাইল হোসেনের মেয়ে।

/টিটি/

লাইভ

টপ