পেঁয়াজ বিক্রিতে ৫ টাকার অতিরিক্ত মুনাফা করলেই ব্যবস্থা

Send
কুমিল্লা প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ১৭:২১, সেপ্টেম্বর ১৬, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৭:২৬, সেপ্টেম্বর ১৬, ২০২০




কুমিল্লায় পেঁয়াজের বাজারে অস্থিরতা সৃষ্টিকারী ব্যবসায়ী ও আড়তদের বিরুদ্ধে কঠোর পদক্ষেপ নেওয়ার যৌথ ঘোষণা দিয়েছে জেলা প্রশাসন ও দোকান মালিক সমিতি। পেঁয়াজের দাম ক্রয় মূল্যের সঙ্গে পরিবহন খরচ ও আনুষাঙ্গিক খরচ যুক্ত করে পাঁচ টাকা মুনাফার বেশি দরে বিক্রি করলেই শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানান জেলা প্রশাসক।

কুমিল্লায় পেঁয়াজের দাম বৃদ্ধি প্রতিরোধে কুমিল্লা দোকান মালিক সমিতি ও আড়তদারদের সঙ্গে মতবিনিময় সভা শেষে এই সিদ্ধান্ত নেয় জেলা প্রশাসন। বুধবার (১৬ সেপ্টেম্বর) দুপুরে কুমিল্লা জেলা প্রশাসন সম্মেলন কক্ষে এ মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়।

পেঁয়াজের আড়তদার ও বিক্রেতাদের ক্রয় রশিদ রাখতে হবে। রশিদ ছাড়া অতিরিক্ত মুনাফা লাভের আশায় পেঁয়াজ মজুত করলে ওই ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
মতবিনিময় সভায় এসময় উপস্থিত ছিলেন, কুমিল্লা জেলা প্রশাসক মো. আবুল ফজল মীর, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট মো. আরিফুল ইসলাম সরদার, কুমিল্লা দোকান মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক মো. আতিক উল্লাহ খোকন, সহ-সভাপতি রেজাউল করিম ও মো. আমিনুল ইসলাম।

কুমিল্লার জেলা প্রশাসক মো. আবুল ফজল মীর বলেন, পেঁয়াজের বাজারে কিছুটা অস্থিরতা দেখা দিয়েছে। কুমিল্লার বাজারে যাতে পেঁয়াজের বাজারে কোনও অস্থিরতা না থাকে এবং ভোক্তাগণ কোনোভাবে ক্ষতিগ্রস্ত না হয়, সেই জন্য জেলা দোকান মালিক সমিতির সঙ্গে প্রশাসনের বৈঠক হয়েছে। বৈঠকে আমরা সিদ্ধান্ত নিয়েছি আড়ত এবং পাইকারী ব্যবসায়ীরা বন্দর কিংবা ঢাকা থেকে পেঁয়াজ আমদানি করলে পরিবহনসহ যাবতীয় খরচের পর ৫ টাকার বেশি লাভে বিক্রি করতে পারবেন না। ঠিক একইভাবে খুচরা ব্যবসায়ীরাও পরিবহন, দোকান ভাড়া ও অন্যান্য খচর এবং লাভসহ ৫ টাকার বেশিতে বিক্রি করতে পারবেন না। ভোক্তাদের হাতে পৌঁছা পর্যন্ত সব ক্রয়-বিক্রয়ের রশিদ সংগ্রহে রাখতে হবে।

জেলা প্রশাসক আরও বলেন, ক্রয়-বিক্রয়ের বিষয়টি আমরা কঠোরভাবে নিয়ন্ত্রণ করবো। সেই নিয়ন্ত্রণের জন্য জেলা প্রশাসক, জেলা ম্যাজিস্ট্রেট, দোকান মালিক সমিতির নেতৃবৃন্দ এবং সাংবাদিকদের সমন্বয়ে একটি মনিটরিং টিম থাকবে। ওই মনিটরিং টিম সব সময় তদারকি করবে বলে জানান তিনি।

/টিটি/

লাইভ

টপ