৯৫ শতাংশ মানুষ অসহায় ৫ শতাংশ মানুষের অত্যাচারের কাছে: ডিআইজি আনোয়ার

Send
নোয়াখালী প্রতিনিধি
প্রকাশিত : ২১:৩২, অক্টোবর ১৭, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ২৩:২৫, অক্টোবর ১৭, ২০২০

ধর্ষণ ও নারী নির্যাতন প্রতিরোধে দেশব্যাপী বিট পুলিশিং কর্মসূচির অংশ হিসেবে নোয়াখালীতে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন চট্টগ্রাম রেঞ্জের ডিআইজি আনোয়ার হোসেন।

৯৫ শতাংশ মানুষ অসহায় হয়ে আছে, ৫ শতাংশ মানুষের অত্যাচারের কাছে। খারাপ মানুষের কাছে আমরা জিম্মি হয়ে থাকতে পারি না। তাই, পুলিশকে মানুষের কাছাকাছি যেতে হবে। পুলিশের কর্মের মাধ্যমে তাদের প্রতি জনগণের আস্থা ফিরিয়ে আনতে হবে। বিট পুলিশিং কথায় নয়, কাজে প্রমাণ করতে হবে। এ কথা বলেছেন চট্টগ্রাম রেঞ্জের ডিআইজি আনোয়ার হোসেন। গৃহবধূকে বিবস্ত্র করে নির্যাতনের ঘটনায় আলোচিত নোয়াখালীর বেগমগঞ্জ উপজেলার সেই একলাশপুর ইউনিয়নের একলাশপুর ফাজিল মাদ্রাসা প্রাঙ্গণে শনিবার (১৭ অক্টোবর) আয়োজিত বিট পুলিশিং সমাবশে প্রধান অতিথির ভাষণে এ কথা বলেন তিনি।

তিনি বলেন, সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে এ বিট পুলিশিং সমাবেশ এর আয়োজন করা হয়েছে। একলাশপুর ঘটনা জাতি হিসাবে আমাদেরকে লজ্জায় ফেলেছে। নিন্দা জানানোর ভাষা নেই। সামাজিক যোগাযোগ এর মাধ্যমে ঘটনা ঘটার একমাস পরে সেই ভিডিও প্রকাশ হওয়ায় বিষয়টি আমাদেরকে চ্যালেঞ্জের মুখে ফেলেছে। সভ্যতা পরিমাপের যত মাপকাটি আছে তা বিবেচিত হয় ওই সমাজে নারীরা কতটুকু নিরাপদ। সে হিসেবে এখানে নারীদের জন্য নির্ভয়ের পরিবেশ তৈরিতে আমাদের আরও বহুদূর যেতে হবে।

তিনি আরও বলেন, সমাজে বিঘ্ন সৃষ্টিকারীর সংখ্যা গুটি কয়েকজন। এদেরকে শায়েস্তা করার জন্য পুলিশের পাশাপাশি জনগনকেও সচেতন হতে হবে। এদেরকে প্রতিহত করা কঠিন কাজ নয়। পুলিশের কাজ শৃঙ্খলা ও নিরাপত্তা বজায় রাখা।

তিনি বলেন, ৯৫ শতাংশ মানুষ অসহায় হয়ে আছে মাত্র ৫ শতাংশ মানুষের অত্যাচারের কাছে। কিন্তু, খারাপ মানুষের কাছে আমরা জিম্মি হয়ে থাকতে পারি না। তাই, পুলিশকে মানুষের কাছাকাছি যেতে হবে। পুলিশের কর্মের মাধ্যমে তাদের প্রতি জনগণের আস্থা ফিরিয়ে আনতে হবে। বিট পুলিশিং কথায় নয়, কাজে প্রমাণ করতে হবে।

দেশব্যাপী কর্মসূচির অংশ হিসেবে নারী ধর্ষণ ও নির্যাতনবিরোধী বিট পুলিশিং সমাবেশটি অনুষ্ঠিত হয়।

পুলিশ সুপার মোহাম্মদ আলমগীর হোসেন র সভাপতিত্বে এবং বেগমগঞ্জ সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার শাহজাহান শেখ এর সঞ্চালনায় সমাবেশে আরও বক্তব্য রাখেন একলাশপুর ইউনিয়নের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা ফিরোজ আলম ভুঁইয়া, একলাশপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোহাম্মদ সালেহ আহম্মদ, একলাশপুর ফাজিল মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মাহবুবুন নবী, বেগমগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি শরীফুল ইসলাম।

এসময় স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ, এলাকাবাসী, শিক্ষক ও শিক্ষার্থীসহ বিভিন্ন শ্রেণি পেশার মানুষ উপস্থিত ছিলেন।

সভায় উপস্থিত শিক্ষার্থী ও সুধীজন পুলিশের আহ্বানে হাত উঁচিয়ে ধর্ষণ  ও নারী নির্যাতনের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ গড়ে তোলা ও বিট পুলিশকে সহযোগিতার প্রতিশ্রুতি দেন।

 

/টিএন/

লাইভ

টপ
X