‘সচরাচর যেটা হয়, তেমন কিছু করতে চাইনি’

Send
সুধাময় সরকার
প্রকাশিত : ১০:১৬, নভেম্বর ০১, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১৭:১০, নভেম্বর ০১, ২০১৯

লিলি ইসলামরবীন্দ্রনাথ ঠাকুর ও তার গানকে শিল্পানুরাগীদের সামনে গত নয় বছর ধরে শৈল্পিকভাবে তুলে ধরার চেষ্টা করছে দেশের অন্যতম সংগীত সংগঠন ‘উত্তরায়ণ’। সংগঠনটির প্রতিষ্ঠার নবম বার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষে ২ নভেম্বর জাতীয় জাদুঘরে অনুষ্ঠিত হচ্ছে ‘ইউরোপে রবীন্দ্রনাথ’ শীর্ষক বিশেষ গীতি আলেখ্য। বিশ্বকবিকে নিয়ে ভিন্ন ধারার এই আয়োজন প্রসঙ্গে কথা বলেছেন উত্তরায়ণ-এর পরিচালক রবীন্দ্রসংগীতশিল্পী ও সংগঠক লিলি ইসলাম-

বাংলা ট্রিবিউন: নিশ্চয়ই খুব ব্যস্ততার মধ্যে আছেন। কারণ, পুরো আয়োজনটা তো আপনাকেই সরাসরি দেখভাল করতে হচ্ছে।

লিলি ইসলাম: সত্যি তাই, খুব ব্যস্ততার মধ্যে আছি। প্রতি বছর এমন সময়ে আমরা বেশ আয়োজন করে অনুষ্ঠানটি করি। চেষ্টা করি, ব্যতিক্রম কিছু করার। এবারও সেই চেষ্টাটা আছে। এরমধ্যে সব গুছিয়ে এনেছি।

লিলি ইসলামবাংলা ট্রিবিউন: এবারের অনুষ্ঠানের বিষয়টি বেশ ব্যতিক্রম- ইউরোপে রবীন্দ্রনাথ!
লিলি ইসলাম: আসলে কবিগুরু এমনই একজন সৃষ্টিশীল মানুষ, যাকে নিয়ে গবেষণা করেও শেষ করা যাবে না। তিনি ও তাঁর সৃষ্টি এতটাই বৈচিত্র্যপূর্ণ, যা মানুষকে মুগ্ধ করে চলে আজীবন। আমরাও সেই মুগ্ধতাই ছড়ানোর চেষ্টা করছি কবিগুরুর কথা-সুরের মাধ্যমে।
বাংলা ট্রিবিউন: কবিগুরুর ইউরোপ সফর নিয়ে এমন আয়োজনের পরিকল্পনা মাথায় এলো কেমন করে? কারণ, কবিগুরুকে নিয়ে এভাবেও ভাবা যেতে পারে- সেটাই অনেকে ভাবেনি।
লিলি ইসলাম: আমরা চেয়েছি একটু ভিন্ন কিছু করার। সচরাচর যেটা হয়, তেমন কিছু করতে চাইনি। কবিগুরুর বর্ষার গান, প্রেমের গান, প্রকৃতির গান- এগুলো সবসময় সবাই করে। তাই আমরা অনেক ভেবেচিন্তে এ বিষয়টি চূড়ান্ত করি। আমার মনে হয়েছে কবিগুরুর এই দিকটা নিয়ে খুব বেশি কাজ হয়নি দুই বাংলায়।
বাংলা ট্রিবিউন: আগ্রহ তৈরি হওয়া স্বাভাবিক। রবীন্দ্রনাথ ইউরোপের কোন কোন দেশ ঘুরেছেন।
লিলি ইসলাম: তিনি অসম্ভব ভ্রমণপিপাসু মানুষ ছিলেন। বহু দেশ তিনি ভ্রমণ করেছেন। ইউরোপের মধ্যে তিনি জার্মানি, ইটালি, লন্ডন, রোমানিয়া, গ্রিসসহ বহু দেশে গেছেন। এবং এসব দেশে গিয়ে তিনি দু’হাতে লিখেছেন-সুর করেছেন। যে লেখার মধ্যে ফুটে উঠেছে সেসব দেশের রূপবৈচিত্র্য এবং মানুষের জীবন। আমরা সেই বিষয়টি এবার ফুটিয়ে তুলতে চাই একসঙ্গে।
বাংলা ট্রিবিউন: ‘ইউরোপে রবীন্দ্রনাথ’ আয়োজনে মোট ক’টি গান থাকছে। গানগুলোর নামও যদি বলতেন…।

লিলি ইসলাম: আমরা ২০টি গান বাছাই করেছি। যেগুলো ইউরোপ অঞ্চলে বসে রচনা করেছেন রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর। এগুলোর মধ্যে ইউরোপের ছায়া উঠে এসেছে। যেমন- গানে গানে তব, সুন্দর বটে তব, এই আকাশে আমার মূর্তি, আলোয় আলোয়, যা পেয়েছি প্রথম দিনে প্রভৃতি।
অনুষ্ঠানে আমরা এই গানগুলো শুধু গাইবোই না, সঙ্গে গানটি সৃষ্টির ভূমিকা এবং প্রজেকশনের মাধ্যমে পুরো আবহটা সবার সামনে তুলে ধরবো।
বাংলা ট্রিবিউন: ‘উত্তরায়ণ’ থেকে এই অনুষ্ঠানের বাইরে আর কী কী পরিকল্পনা রয়েছে কবিগুরু কিংবা তাঁর গান নিয়ে।
লিলি ইসলাম: আমরা তো সারা বছরই রবীন্দ্রসংগীতের চর্চা ও বিকাশের জন্য নিয়মিত কাজ করে থাকি। আর বছরে এভাবে একবার সবাইকে জানিয়ে বড় আকারের আয়োজন করি। তবে এখন থেকেই আমাদের পরিকল্পনা ও প্রস্তুতি রয়েছে উত্তরায়ণ-এর দশম আয়োজনকে ঘিরে। এবার হচ্ছে নবম আসর আর সামনের বছর এই সময়ে করতে চাই দশম আসর। সেটি অনেক বড় করে করার স্বপ্ন দেখি। আমার খুব ইচ্ছা, সেটি এমন আয়োজন করবো, কবিগুরুর গান নিয়ে যেমনটা আগে কেউ করেনি।

বাংলা ট্রিবিউন: ‘ইউরোপে রবীন্দ্রনাথ’ আয়োজনটির সফলতা কামনা করছি।
লিলি ইসলাম: আপনাকেও অশেষ ধন্যবাদ। আমি চাই শনিবার (২ নভেম্বর) বন্ধু-স্বজন নিয়ে সবাই আসবেন, আমাদের অনুষ্ঠানটি উপভোগ করবেন। কেমন লাগলো, সেটাও জানাবেন।লিলি ইসলাম

/এমএম/এমওএফ/

লাইভ

টপ