অস্কার মঞ্চে অর্কেস্ট্রার সুর বাজবে তার ইশারায়

Send
জনি হক
প্রকাশিত : ১৬:২৫, জানুয়ারি ২৫, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৬:২৯, জানুয়ারি ২৫, ২০২০

ইমেয়ার নুনঅস্কারের জাঁকজমকপূর্ণ আসরে অর্কেস্ট্রা পরিচালনা করবেন আইরিশ সুরকার ইমেয়ার নুন। অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ডসের ৯২ বছরের ইতিহাসে এবারই প্রথম কোনও নারীর কাঁধে থাকছে এই দায়িত্ব।
৪২ জনের অর্কেস্ট্রাকে নেতৃত্ব দেবেন তিনি। ইতিহাস গড়ে উচ্ছ্বসিত এই তারকা।
এবারের অস্কারের সেরা মৌলিক গান বিভাগে মনোনীত পাঁচটি গান বাদে গোটা অনুষ্ঠানের সব সুর বাজবে ইমেয়ার নুনের ইশারায়। তাকে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন অস্কারের সংগীত পরিচালক রিকি মাইনর।
আয়ারল্যান্ডের গ্যালওয়ে শহরে জন্মগ্রহণ করেছেন ইমেয়ার নুন। বছরে অর্ধশত কনসার্টের পরিচালক হিসেবে পাওয়া যায় তাকে। ডাবলিন ন্যাশনাল কনসার্ট হলে প্রথম নারী হিসেবে অর্কেস্ট্রা পরিচালনা করেন তিনি। অস্কারের মাধ্যমে এবার উঠতে যাচ্ছেন নতুন এক উচ্চতায়।
ইমেয়ার নুনের আশা, আগামী প্রজন্মের নারী অর্কেস্ট্রা পরিচালক ও সুরকারদের অনুপ্রাণিত করবে তার এই অর্জন।
ভ্যারাইটি পত্রিকাকে তিনি বলেন, “অস্কার মঞ্চে কাজটি করার সুযোগ পাওয়া সম্মানের ব্যাপার। দেশ কিংবা কনসার্ট মিলনায়তন আমার কাছে মুখ্য নয়, সুর থাকে আমার মনে। বিশ্বের সব প্রান্তের উঠতি নারী সুরকাররা এই দৃশ্য দেখে হয়তো বলবে, ‘আমিও পারবো।’ আর আমরা এটাই চাই।”
হিলদোর গুদনাদত্তিরএদিকে অস্কারের সেরা মৌলিক আবহসংগীত বিভাগে মনোনীত পাঁচজনের মধ্যে একমাত্র নারী আইসল্যান্ডের হিলদোর গুদনাদত্তির (জোকার)। তিনিই পুরস্কারটির জন্য ফেভারিট। গত ৯২ বছরে অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ডসে মনোনয়ন পাওয়া পঞ্চম নারী সুরকার তিনি।  
১৯৪৭ সালে চালু হওয়া গোল্ডেন গ্লোব অ্যাওয়ার্ডসের ইতিহাসে এককভাবে প্রথম নারী হিসেবে সেরা মৌলিক আবহসংগীত বিভাগের পুরস্কার জিতেছেন ৩৭ বছর বয়সী এই সংগীত পরিচালক। ২০০০ সালে ‘গ্লাডিয়েটর’ ছবির জন্য জার্মান সুরকার হ্যান্স জিমারের সঙ্গে যৌথভাবে কাজ করার সুবাদে গোল্ডেন গ্লোব অ্যাওয়ার্ডসে সেরা মৌলিক আবহসংগীত বিভাগে পুরস্কৃত হন লিসা জেরার্ড। তাকে ছাড়িয়ে গেলেন হিলদোর গুদনাদত্তির। বাফটায় শেষ হাসি তিনিই হাসবেন বলে আশা করা হচ্ছে।
গত সেপ্টেম্বরে এইচবিও/স্কাই সিরিজ ‘চেরনোবিল’-এর জন্য এমি জেতেন হিলদোর গুদনাদত্তির। একই সিরিজের জন্য গ্র্যামি অ্যাওয়ার্ডসে মনোনয়ন পান তিনি। তার হাতে পুরস্কারটি উঠলে অস্বাভাবিক মনে হবে না!
জার্মানির বার্লিনে নিভৃত জীবনযাপন করেন হিলদোর গুদনাদত্তির। তিনি একজন সেলিস্ট ও কণ্ঠশিল্পী। বেশিরভাগ সময় স্টুডিওতেই কাটে তার। নয়তো একমাত্র পুত্রসন্তানকে নিয়ে ফুটবল খেলেন।
এদিকে সেরা মৌলিক গান বিভাগে মনোনীত পাঁচটি গান অস্কার মঞ্চে গেয়ে শোনাবেন এগুলোর মূল কণ্ঠশিল্পীরা। তাদের মধ্যে তিনজনই নারী। অনুষ্ঠানের দুই নারী প্রযোজক লিনেট হাওয়েল টেলর ও স্টেফানি অ্যালেইন খবরটি নিশ্চিত করেছেন।
ব্রিটিশ তারকা স্যার এলটন জন পরিবেশন করবেন ‘রকেটম্যান’ ছবিতে নিজের সুর করা “আই’ম গনা লাভ মি অ্যাগেইন” (গীতিকার বার্নি টাউপিন)। আমেরিকার র‌্যান্ডি নিউম্যান গাইবেন নিজের লেখা ও সুরে ‘আই কান্ট লেট ইউ থ্রো ইউরসেলফ অ্যাওয়ে’ (টয় স্টোরি ফোর)।
‘ব্রেকথ্রো’ ছবিতে ডায়েন ওয়ারেনের কথা ও সুরে “আই’ম স্ট্যান্ডিং উইথ ইউ” পরিবেশন করবেন আমেরিকান গায়িকা ক্রিসি মেৎজ। ‘ফ্রোজেন টু’ ছবির ইন্টু দ্য আননৌন’ (কথা ও সুর ক্রিস্টেন অ্যান্ডারসন-লোপেজ ও রবার্ট লোপেজ) গেয়ে শোনাবেন ইডিনা মেনজেল ও অরোরা।
(বাঁ থেকে) রামি মালেক, অলিভিয়া কোলম্যান, রেজিনা কিং ও মাহেরশালা আলি‘হ্যারিয়েট’ ছবির ‘স্ট্যান্ড আপ’ গাইবেন সিনথিয়া এরিভো। তার সঙ্গে মিলে এটি লিখেছেন ও সুর করেছেন জশুয়া ব্রায়ান ক্যাম্পবেল। পাঁচ সংগীতশিল্পীর মধ্যে সিনথিয়া এরিভো বাদে বাকি চারজনই অস্কার জিতেছেন। এছাড়া থাকবে কোয়েস্টলাভের বিশেষ পরিবেশনা।
গত অস্কারের সেরা অভিনেতা রামি মালেক, সেরা অভিনেত্রী অলিভিয়া কোলম্যান, সেরা পার্শ্ব অভিনেতা মাহেরশালা আলি ও পার্শ্ব অভিনেত্রী রেজিনা কিং এবার পুরস্কার তুলে দিতে মঞ্চে হাজির হবেন।
একটি উল্লেখযোগ্য তথ্য না দিলেই নয়। এবার সেরা পরিচালক বিভাগে মনোনয়ন পেয়েছেন আমেরিকার মার্টিন স্করসেসি। অস্কারের ইতিহাসে এ নিয়ে সর্বাধিক নয়বার মনোনীত পরিচালক তিনিই। এর আগে বিলি ওয়াইল্ডার আটবার সেরা পরিচালক হিসেবে মনোনয়ন পেয়েছিলেন। কিন্তু তিনি এখন বেঁচে নেই।
গতবারের মতো এবারও সঞ্চালক থাকছে না অস্কারে। আগামী ৯ ফেব্রুয়ারি হলিউডের ডলবি থিয়েটারে বিভিন্ন পরিবেশনার ফাঁকে বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার তুলে দেবেন তারকারা। অনুষ্ঠানটি এবিসি নেটওয়ার্কের মাধ্যমে বাংলাদেশসহ বিশ্বের ২২৫টি দেশে সরাসরি দেখানো হবে।  
সূত্র: রয়টার্স

/জেএইচ/এমএম/

লাইভ

টপ