শুভ জন্মদিন ঢালিউড কিংএই খারাপ সময়ে সবাই যেন সচেতন থাকেন: শাকিব খান

Send
বিনোদন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ১১:৫৩, মার্চ ২৮, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ১৩:২৮, মার্চ ২৮, ২০২০

শাকিব খানশাকিব খান। যিনি ঢালিউড ইতিহাসের সবচেয়ে সফল নায়ক হিসেবে নিজের অবস্থান অটুট রেখেছেন। ধারণা করা হয়, তার এই একক অবস্থান টিকে থাকবে আরও লম্বা সময়। ভক্তরা ভালোবেসে যাকে ‘কিং খান’ নামে ডাকেন আর সমালোচকদের বয়ানে তিনি হলেন ‘কুল খান’। ঠান্ডা মাথার এই মেধাবী ঢালিউড সম্রাটের আজ (২৮ মার্চ) জন্মদিন।

১৯৭৯ সালের এই দিনে (২৮ মার্চ) নারায়ণগঞ্জে জন্ম মাসুদ রানার। পরবর্তীতে ১৯৯৯ সালের ২৮ মে সোহানুর রহমান সোহানের ‘অনন্ত ভালোবাসা’ ছবি দিয়ে যার অভিষেক হয় শাকিব নামে। যদিও তার অভিনীত প্রথম ছবির নাম আবুল খায়ের বুলবুলের ‘সবাইতো সুখী হতে চায়’।
২০০৮ সালে নায়ক মান্না মারা যাওয়ার পর ঢালিউড ইন্ডাস্ট্রির অলিখিত সম্রাট হিসেবে নিজের অবস্থান আজও অটুট রেখেছেন।
খবর মিলেছে এবারের জন্মদিন অন্য যে কোনও বছরে বিচারে বেশ আলাদা কাটবে। ঘরে বসেই কাটাবেন পুরো দিন। কারণ, বিশ্বজুড়েই চলছে হোম কোয়ারেন্টিন। যে তালিকা থেকে বাদ নেই শাকিব খানও।
অথচ এই দিনকে ঘিরে দেড় সপ্তাহ আগেও ছিলো বড়সড় আয়োজনের পরিকল্পনা। কথা ছিল জন্মদিনের উৎসব আর নতুন ছবি ‘নবাব এলএলবি’র মহরত অনুষ্ঠান দিয়ে জমকালো এক আয়োজন হবে শাকিব খানকে ঘিরে। করোনাভাইরাসের কারণে সেটি আর হলো না।
তবে জন্মদিনে তার কণ্ঠে প্রাক্তন প্রতিজ্ঞা- ‘ভক্তদের আরও অনেক ভালো ভালো ছবি উপহার দেওয়ার আপ্রাণ চেষ্টা করছি। সবার দোয়া চাই।’
সঙ্গে যুক্ত করলেন এই বলে, ‘বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাস আতঙ্ক চলছে। এমন পরিস্থিতিতে ঘটা করে জন্মদিন পালন করার মানে নেই। জরুরি কাজ ছাড়া আমি বাইরে যাচ্ছি না। ভক্তদের কাছে আমার প্রত্যাশা, এই খারাপ সময়ে সবাই যেন সচেতন থাকেন।’
শাকিব খানের ক্যারিয়ারে সবচেয়ে বড় ‘ব্রেক থ্রু’ আসে এফ আই মানিকের ‘কোটি টাকার কাবিন’ ছবির মধ্য দিয়ে। তার অভিনীত উল্লেখযোগ্য ছবি হচ্ছে— ‘প্রিয়া আমার প্রিয়া’, ‘কোটি টাকার কাবিন’, ‘ডাক্তার বাড়ি’, ‘তুমি স্বপ্ন তুমি সাধনা’, ‘১ টাকার বউ’, ‘আমার প্রাণের প্রিয়া’, ‘বলব কথা বাসর ঘরে’, ‘কোটি টাকার প্রেম’, ‘চাচ্চু আমার চাচ্চু’, ‘ভালোবাসা আজকাল’, ‘সুভা’, ‘এইতো প্রেম’, ‘ভালোবাসলেই ঘর বাঁধা যায় না’, ‘পূর্ণদৈর্ঘ্য প্রেম কাহিনি’, ‘সত্তা’, ‘পাসওয়ার্ড’, ‘বীর’, ‘শাহেনশাহ’ প্রভৃতি।
তার অভিনীত এখন পর্যন্ত দুই শতাধিক ছবি মুক্তি পেয়েছে। এরমধ্যে ২০১২ সালে ‘ভালোবাসলেই ঘর বাঁধা যায় না’, ২০১৪ সালে ‘খোদার পরে মা’, ২০১৬ সালে ‘আরও ভালোবাসবো তোমায়’ এবং ২০১৭ সালে ‘সত্তা’ ছবির জন্য শ্রেষ্ঠ অভিনেতা হিসেবে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পেয়েছেন।
শাকিব খান ও অপু বিশ্বাসশাকিব সর্বাধিক অভিনয় করেছেন অপু বিশ্বাসের সঙ্গে, প্রায় ৭০টি ছবিতে। এছাড়া তিনি শাবনূর, পপি, মুনমুন, মৌসুমী এদের সঙ্গেও সমান সফল।
‘মনের জ্বালা’ ও ‘পূর্ণদৈর্ঘ্য প্রেম কাহিনি’র ‘আমি চোখ তুলে তাকালেই সূর্য লুকায়’ এবং ‘ও প্রিয় আমি তোমার হতে চাই’ শিরোনামের গানগুলোতে তিনি কণ্ঠ দিয়েছিলেন। তিনি বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির পরপর দুবারের নির্বাচিত সভাপতি ছিলেন।
ব্যক্তি জীবনে শাকিব খান এক পুত্রের জনক। নাম আব্রাম খান জয়। জয়ের মা শাকিব খানের ক্যারিয়ারের সর্বাধিক ছবির নায়িকা অপু বিশ্বাস। ২০০৮ সালে প্রেম করে বিয়ে করেন শাকিব-অপু। যেটি শেষপর্যন্ত বিচ্ছেদে গড়ায়।
শাকিব খানের জন্মদিনে বাংলা ট্রিবিউন পরিবারের পক্ষ থেকে অনেক অনেক শুভেচ্ছা ও শুভকামনা।

/এমএম/

লাইভ

টপ