ইমেজ রক্ষার্থে ‘হিরো আলম’কে নিয়ে অনন্ত জলিলের সিদ্ধান্ত বদল!

Send
বিনোদন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ১৯:০৬, জুলাই ১৬, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ২৩:২৬, জুলাই ১৬, ২০২০

অনন্ত জলিলভিউ বা জনপ্রিয়তা নয়, একজন শিল্পীর জন্য ‘ইমেজ’ হলো বড় ফ্যাক্টর—অবশেষে সেটি অনুধাবন করতে পেরেছেন অনন্ত জলিল। সেই বিষয়টিই বৃহস্পতিবার (১৬ জুলাই) জানান দিলেন আলোচিত এই চলচ্চিত্র নায়ক-প্রযোজক ও পরিচালক।

সম্প্রতি সমালোচিত ইউটিউবার হিরো আলমকে নিয়ে সিনেমা বানানোর ঘোষণা দিয়েছিলেন অনন্ত জলিল। তিন তারকা হোটেলে ডেকে সমঝোতা করিয়েছেন শিল্পী সমিতির সাধারণ সম্পাদক জায়েদ খানের সঙ্গে! অনন্ত নিজের ঘরে ডেকে স্ত্রী বর্ষাকে উপস্থাপক বানিয়ে আলমকে নিয়ে করেছেন টকশো! শুধু তা-ই নয়, এই করোনাকালেও ঘটা করে সাইনিং মানি হিসেবে ৫০ হাজার টাকা দিয়েছেন তাকে। তবে শেষ পর্যন্ত চারপাশের সমালোচনার মুখে পড়ে হিরো আলমকে নিয়ে সিনেমা না বানানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছেন অনন্ত জলিল।
কারণ হিসেবে তিনি জানালেন হিরো আলমের আচার-ব্যবহার এবং নিজের ইমেজ রক্ষার কথা।
অনন্ত বলেন, ‘আমি হিরো আলমকে নিয়ে কোনও সিনেমা বানাবো না এবং পঞ্চাশ হাজার টাকা সাইনিং মানি ফেরত নেবো না!’
সঙ্গে যোগ করে বলেন, ‘সিংহভাগ বিনোদন সাংবাদিক এবং চলচ্চিত্র পরিবারের গুণীজনরা হিরো আলমকে নিয়ে সিনেমা বানানোর বিষয়ে আপত্তি জানাচ্ছেন। এবং সম্প্রতি তার কিছু অশ্লীল ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে সবাই আবারও আমাকে নিষেধ করছেন তাকে নিয়ে সিনেমার না বানানোর। সব সময় আমি বিব্রত হচ্ছি, হিরো আলমের এসব বিতর্কিত বিষয়গুলোর জন্য।’

আরও একটি কারণ তিনি উল্লেখ করেন, ‘কিছু দিন আগে আমি নিজ উদ্যোগে জায়েদ খানের সঙ্গে হিরো আলমকে মিল করিয়ে দিয়েছিলাম এবং প্যান প্যাসিফিক সোনারগাঁও হোটেলে তাদের নিয়ে একসঙ্গে লাঞ্চ করেছিলাম। মীমাংসা করে দেওয়ার পরেও একই বিষয় নিয়ে বিভিন্ন জায়গায় হিরো আলম নানা মন্তব্য করছেন, যা মোটেও কাম্য নয়। আমার এত ব্যস্ততার মাঝেও আমি তাকে পাশে বসিয়েছিলাম, সে আমার মর্যাদা বোঝেনি। বরং আমাকে ইমেজ সংকটে ফেলে দিচ্ছিলো। তাই আমি চাই না ভবিষ্যতে তার দ্বারা আমার মর্যাদা ক্ষুণ্ণ হোক।’


নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেইজে লেখা এই প্রতিক্রিয়ায় অনন্ত জলিল আরও বলেন, ‘আমি চাইছিলাম তার পাশে দাঁড়িয়ে তাকে সহযোগিতা করার, যাতে তার উপকার হয়। কিন্তু এখন বুঝলাম, এ ধরনের চারিত্রিক বৈশিষ্ট্যের মানুষের সঙ্গে আমার কাজ করা সম্ভব না। তার এই চারিত্রিক বৈশিষ্ট্যের কারণে আমি আর তাকে নিয়ে সিনেমা বানাবো না। পঞ্চাশ হাজার টাকা সাইনিং মানি যেটি দিয়েছি, সেটি আমি চাইছি না। সেটি তাকে দিয়ে দিলাম।’

/এম/এমএম/

লাইভ

টপ