অনুপম-অনির্বাণের কণ্ঠে মাইকেল-বিদ্যাসাগরের গল্প (ভিডিও)

Send
বিনোদন রিপোর্ট
প্রকাশিত : ০০:৩৪, সেপ্টেম্বর ৩০, ২০২০ | সর্বশেষ আপডেট : ০০:৩৪, সেপ্টেম্বর ৩০, ২০২০

ভিডিওতে অনির্বাণ ও অনুপমবাঙালিদের নবজাগরণের অন্যতম পথিকৃৎ ছিলেন ঈশ্বর চন্দ্র বিদ্যাসাগর। অন্যদিকে বাংলা সাহিত্যের প্রতাপশালী কবি মাইকেল মধুসূদন দত্ত। সুশৃঙ্খল ও অগোছালো- এই বিপরীত মেরুর দুজন ছিলেন খুব ভালো বন্ধু। বন্ধুত্বের কারণে আবাসস্থল বিক্রি পর্যন্ত করতে হয়েছিল।
বিলেতে মধুসূদন থাকা অবস্থায় বেশ কিছু পত্র আদান-প্রদান হয় বিদ্যাসাগরের সঙ্গে। তাদের দুজনের চিঠি নিয়ে কলকাতার শিল্পী অনুপম রায় তৈরি করেছেন গান। যেখানে বিদ্যাসাগরের ভূমিকায় কণ্ঠ ধারণ করেছেন টলিউডের জনপ্রিয় অভিনেতা অনির্বাণ ভট্টাচার্য। আর মাইকেল মধুসূদন হয়েছিলেন অনুপম।
গানের শিরোনাম ‘মাইকেল-বিদ্যাসাগর সংবাদ’। এতে ব্যবহার করা হয়েছে বিলেতে থাকা অবস্থায় বিদ্যাসাগর ও মাইকেলের লেখা চিঠি।
মধুসূদন বিলেতে থাকাকালীন তাদের মধ্যে নিবিড় হয় এই বন্ধুত্ব, দীর্ঘ পত্রালাপের মাধ্যমে। মধুসূদন যখন সর্বস্বান্ত ব্যারিস্টারি পড়তে গিয়ে, তখন স্ত্রী-পুত্র-কন্যাসহ প্রবাসী এই কবিকে জমি বন্ধক রেখে অর্থসাহায্য করেন বিদ্যাসাগর। আবার বিদ্যাসাগর যখন দেনার দায়ে সর্বস্বান্ত হতে বসেছেন, তখন প্রকৃত বন্ধুর মতো, সবটুকু বেচে দিয়ে মধুসূদন তার পাশে দাঁড়ান। এই অসাধারণ ঘটনাগুলোই এক আধুনিক আকার পেয়েছে গানচিত্রটিতে। এটির কথা ও সুর করেছেন অনুপম রায়।
অনুপম জানান, লকডাউনের সময় বই পড়তে পড়তে বিদ্যাসাগরের জীবনী হাতে আসে তার। সেটা পড়ার সময়েই এই বিষয়টি নিয়ে কাজ করার কথা ভাবেন তিনি।
তিনি বলেন, ‘‘কথোপকথনের ভিত্তিতে প্রোজেক্টটি তৈরি, কাজেই আমার আরেকটি কণ্ঠের দরকার ছিল। তখনই অনির্বাণের কথা মাথায় আসে এবং ও রাজিও হয়ে যায়। আমি প্রথম ‘উমা’ ছবির প্রচারের সময় অনির্বাণকে আমার ‘আলস্য’ গানটি গুন গুন করতে শুনি। তারপরে ধীরে ধীরে বুঝতে পেরেছিলাম যে, ও গান নিয়ে কতটা সিরিয়াস।’’
গত ২৬ সেপ্টেম্বর ছিল ঈশ্বর চন্দ্র বিদ্যাসাগরের ২০০তম জন্মজয়ন্তী। এদিনই গানটি ইউটিউবে অবমুক্ত করেছে এসভিএফ।
মাইকেল-বিদ্যাসাগর সংবাদ:

/এম/এমএম/

লাইভ

টপ
X