ট্রাম্পের হুমকির পর অভিবাসন চুক্তি স্বাক্ষর করেছে গুয়েতেমালা

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ০৮:৫৩, জুলাই ২৭, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ০৮:৫৯, জুলাই ২৭, ২০১৯

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প শুল্ক আরোপের হুমকি দেওয়ার কয়েক দিনের মাথায় ওয়াশিংটনের সঙ্গে অভিবাসন চুক্তি স্বাক্ষর করেছে গুয়েতেমালা। চুক্তির আওতায় হন্ডুরাস ও এল সালভাদর থেকে গুয়েতেমালা হয়ে যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশ করতে চাওয়া অভিবাসীদের প্রথমে সেখানে থামাতে হবে আর আশ্রয় চাইতে হবে। যেসব অভিবাসীরা তা করতে ব্যর্থ হবে তারা যুক্তরাষ্ট্রে আশ্রয়ের আবেদনের অযোগ্য বিবেচিত হবে। ট্রাম্প বলেছেন এর বিনিময়ে গুয়েতেমালার কর্মীরা সহজে যুক্তরাষ্ট্রের খামারে কাজ করার সুযোগ পাবে।যুক্তরাষ্ট্র থেকে স্বজনকে প্রত্যর্পনের অপেক্ষায় গুয়েতেমালায় এক পরিবার

গত সপ্তাহে কংগ্রেসের অনুমোদন ছাড়া যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে অভিবাসন চুক্তি স্বাক্ষর না করতে প্রেসিডেন্ট জিমি মোরালেসকে নির্দেশ দেয় গুয়েতেমালার সাংবিধানিক আদালত। ওই সময়ে চুক্তি স্বাক্ষর আটকে গেলে মধ্য আমেরিকার দেশটির ওপর অতিরিক্ত শুল্ক আরোপের হুমকি দেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির খবরে বলা হয়েছে, সাংবাদিক আদালতের নিষেধাজ্ঞা এড়িয়ে কিভাবে শুক্রবার চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে তা এখনও পরিস্কার নয়।

গুয়েতেমালার সরকার জানিয়েছে দুই বছর মেয়াদী এই চুক্তি প্রতি তিন মাস অন্তর পর্যালোচনা করা হবে। কোনও পক্ষই চুক্তির অধীনে কোনও তহবিল তৈরিতে বাধ্য নয়।

শুক্রবার চুক্তি স্বাক্ষরের আগে যেকোনও দেশ পেরিয়ে যুক্তরাষ্ট্র-মেক্সিকো সীমান্তে আসা অভিবাসীরা যুক্তরাষ্ট্রে আশ্রয়ের আবেদন করতে পারছিলেন। যদিও ট্রাম্প প্রশাসনের তরফ থেকে আবেদনকারীর সংখ্যা সীমিত রাখতে কঠোর বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়।

/জেজে/

লাইভ

টপ
X