জাতিসংঘে ইসরায়েলের পক্ষে বলবেন ‘মিস ইরাক’

Send
বিদেশ ডেস্ক
প্রকাশিত : ১৮:১০, নভেম্বর ২০, ২০১৯ | সর্বশেষ আপডেট : ১৮:৫৯, নভেম্বর ২১, ২০১৯

জাতিসংঘের সদর দফতরে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে ইসরায়েলের হয়ে কথা বলবেন সাবেক ‘‌মিস ইরাক’ সারাহ আইডান। ডিসেম্বরের ওই অনুষ্ঠানে জাতিসংঘ কর্মকর্তারা ছাড়াও বিশ্বের বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্রদূত উপস্থিত থাকবেন।

ইসরায়েল প্রতিষ্ঠার পর আরব দেশগুলো থেকে তাড়িয়ে দেওয়া ইহুদি শরণার্থীদের বাস্তবতাকে সামনে আনতেই ডিসেম্বরে জাতিসংঘে ওই অনুষ্ঠান হতে যাচ্ছে।  মধ্যপ্রাচ্য ও উত্তর আফ্রিকার ইহুদিদের সংগঠন‘জিউস ইনডেজিনিয়াস টু দ্য মিডিল ইস্ট অ্যান্ড নর্থ  আফ্রিকা’(জিমেনা) থাকছে ওই আয়োজনের সঙ্গে। আয়োজকরা জানিয়েছে, তাদের উদ্দেশ্য ইহুদি শরণার্থীদের ব্যাপারে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের দৃষ্টি আকর্ষণ।

সারাহ ছাড়াও ওই অনুষ্ঠানে ট্রাম্প প্রশাসনের বিশেষ দূত এলান কারও অংশ নেবেন।

২০১৭ সালে খেতাব পাওয়ার পর মিস ইসরায়েলের সঙ্গে ছবি তুলে সমালোচনার মুখে পড়েন সারাহ। ইরাকি মানবাধিকার পরিস্থিতির সমালোচনা করে নাগরিকত্বও হারান। জীবনের হুমকির মুখে ২০১৮ সালে দেশত্যাগ করে যুক্তরাষ্ট্রে বসবাস শুরু করেন তিনি। এরপর থেকে ইসরায়েলের হয়ে কথা বলতে শুরু করেন। সম্প্রতি হামাসকে সন্ত্রাসী গোষ্ঠী বলে মন্তব্য করে সমালোচিত হন সারাহ।

জাতিসংঘে নিযুক্ত ইসরায়েলি রাষ্ট্রদূত ড্যানি ড্যানন দাবি করেন, আরব দেশগুলো থেকে বিতাড়িত প্রায় ১০ লাখ ইহুদি শরণার্থীদের বিষয়ে জাতিসংঘ কখনোই খুব বেশি নজর দেয়নি।  ইসরায়েল অবশ্যই এই শরণার্থীদের নিয়ে আওয়াজ তুলবে। 

/এমএইচ/বিএ/

লাইভ

টপ